• হরিদাস পাল  আলোচনা  রাজনীতি

  • স্বাধীনতার মানে

    রৌহিন লেখকের গ্রাহক হোন
    আলোচনা | রাজনীতি | ১৫ আগস্ট ২০২০ | ৫১৭ বার পঠিত
  • জমিয়ে রাখুন পুনঃসম্প্রচার
  • "স্বাধীনতা" বলতে আসলে কী বোঝায় এ নিয়ে পাতার পর পাতা তর্ক হয়েছে, হচ্ছে এবং হবে। এবং সে তর্কের কোন মীমাংসা হবে এমন আশাও খুবই কম - কারণ স্বাধীনতা একটি অ্যাবস্ট্রাক্ট ভাবনা এবং যে কোন অন্য অ্যাবস্ট্রাক্টের মতই এরও সংজ্ঞা ব্যক্তিগত চেতনানির্ভর। তাই আমার স্বাধীনতা আর আপনার স্বাধীনতা এক নয়। এক হবে না, সেটাই স্বাভাবিক। তবুও প্রতি বছর আমরা একটা "স্বাধীনতা দিবস" পালন করি সবাই মিলে, আর এই আলোচনাগুলোও সেদিনই বেশী করে উত্থাপিত হয় - অর্থাৎ অনস্বীকার্য যে স্বাধীনতা বিষয়ক কিছু সাধারণ ভাবনাও আমাদের আছে। ১৫ই আগস্ট ভারত নামক একটি সার্বভৌম গণতান্ত্রিক ধর্মনিরপেক্ষ রাষ্ট্রের স্বাধীনতা দিবস আর এই দিনটিকে উপলক্ষ্য করেই তাই স্বাধীনতা বিষয়ক আলোচনাগুলি মাথা চাড়া দিয়ে ওঠে।

    রাষ্ট্র আরেকটি অ্যাবস্ট্রাক্ট ধারণা - তবে স্বাধীনতার ধারণার চেয়ে রাষ্ট্রের ধারণাটি আমাদের কাছে অনেক বেশী পাওয়ারফুল। কারণ রাষ্ট্র অ্যাবস্ট্রাক্ট হলেও তার অস্তিত্ব আমরা অনুভব করি, প্রতিনিয়ত করি। রাষ্ট্রের স্বাধীনতা দিবস পালন করার সময়েও আমাদের মনে রাখতে হয় আমরা কিন্তু রাষ্ট্রের হাত থেকে স্বাধীন নই, আমাদের স্বাধীনতা শর্তাধীন, রাষ্ট্রাধীন। স্বাধীন রাষ্ট্রের স্বাধীন নাগরিক আমি আমার সকাল থেকে রাতের প্রায় কোন পদক্ষেপই ততটা স্বাধীনভাবে করতে পারিনা যতটা আমরা ভাবি যে আমরা পারছি। কারণ রাষ্ট্র আমাকে সেই স্বাধীনতা দেয়নি। প্রতি পদে আমাকে প্রমাণ করে চলতে হয় যে আমি রাষ্ট্রের জন্য নিবেদিতপ্রাণ - তার বিনিময়ে আমার জোটে "স্বাভাবিকভাবে" বেঁচে থাকার অধিকার। রাষ্ট্র আমায় বলে দেয় কতদূর আমার সীমা - কতদূর যেতে পারব আর কোথায় না। রাষ্ট্র আমায় বুঝিয়ে দেয় কোন খাদ্য আমি পেতে পারি আর কোনটা নয়। রাষ্ট্র ঠিক করে দেয় আমি কার সঙ্গে কথা বলতে পারি, কার সাথে নয়। কোন বইটা পড়তে পারি কোনটা নয়। কে রাস্তা দিয়ে গেলে আমায় সরে দাঁড়াতে হবে আর আমি গেলে কে সরে দাঁড়াবে।

    এখন প্রশ্ন হল এসবই তো মানুষ নিজের ইচ্ছেতেই করতে পারে, দেশকে ভালবেসে ত্যাগও তো অনেকেই করে থাকেন। নৈমিত্তিক জীবনের কতগুলি ঘটনাকে এরকম ঘুরিয়ে এমনভাবে উপস্থাপন করছি, কারণটা কী? কারণ "দেশকে ভালবেসে" এসব কিছুই করতে পারি ঠিকই, কিন্তু আমার দেশ তো রাষ্ট্র নয়। রাষ্ট্র আর দেশের ফারাক আছে। দেশ হল আমার সেই ভূমি যেখানে আমি ফিরে আসতে পারি, সব কাজ সেরে ক্লান্ত শরীরে। দেশ আমার সেই বন্ধু যার সঙ্গে মারামারি করি, আবার সব প্রাণের কথাও কেবল তার কাছেই বলা যায়। রাষ্ট্র এসব কিছুই নয় - রাষ্ট্র হল ক্ষমতা। সেই যে দুতিন বছর আগে অসমে বিরাট বন্যা হল, পনেরোই আগস্টে একটা ছবি ভাইরাল হল - এক গলা জলে দাঁড়িয়ে দুটি ছেলেমেয়ে দেখছে, এক কোমর জলে দাঁড়ানো স্কুলশিক্ষক জাতীয় পতাকা ওড়াচ্ছেন - আমার কাছে ওই বাচ্চাদুটি আমার দেশ - আর মাথার ওপরে পতপত করা ওই পতাকাটা রাষ্ট্র। মাটির থেকে দূরে, নিজ গর্বে উড্ডীয়মান, নীচের দেশটিই তাকে তুলে ধরেছে কিন্তু তার সঙ্গে সম্পর্ক বিরহিত। তাকে "ভালবেসে" কিছু করা যায় না কারণ তাকে ভালবাসা যায় না।

    রাষ্ট্রের স্বাধীনতা দিবস ধুমধামে পালিত হয়, আমার দেশ সেখানে অনুপস্থিত এবং অবহেলিত থেকে যায় প্রতিবারই। এই অবহেলা অবশ্য পারস্পরিক। দেশের তো স্বাধীনতা দিবসের প্রয়োজন হয় না কারণ তাকে পরাধীন করাই যায় না। শত শত সাম্রাজ্যের ভগ্নশেষ পরে যারা কাজ করে যায় নগরে, প্রান্তরে তাদের পরাধীন করার কোন উপায় রাষ্ট্রের জানা নেই আজও। এক গলা জলেই হোক বা কড়া রোদ্দুরে, অতিমারী কিম্বা শীতের নবান্নে - ওরা কাজ করে। নিজেদের কাজ। স্বাধীন কাজ। আমার দেশ, দেশের কাজ।
  • বিভাগ : আলোচনা | ১৫ আগস্ট ২০২০ | ৫১৭ বার পঠিত
  • জমিয়ে রাখুন পুনঃসম্প্রচার
আরও পড়ুন
খোপ - রৌহিন
আরও পড়ুন
কাঠাম - Rumela Saha
আমার গুরুবন্ধুদের জানানকরোনা
  • মতামত দিন
  • বিষয়বস্তু*:
  • সঞ্জীব চক্রবর্ত্তী | 2409:4061:2e86:5082:af6c:37e3:c9b4:2c48 | ১৬ আগস্ট ২০২০ ০২:১১96325
  • ভাল লেখা। সঠিক মূল্যায়ন। দেশবাসী যে দেশের বাধা মুরগি নয় এটা নাগরিকদের দেশকে বুঝিয়ে দেওয়া দরকার। নাগরিকের দেশের কাছে কি কি পাওয়ার অধিকার আছে, কি কি ব্যাপারে দেশ নাক গলাতে পারবে না, নাগরিকের প্রতি দেশের দায়িত্বগুলি সুনির্দিষ্টভাবে সব বলা আছে সংবিধানে। 

  • উজ্জ্বল | ১৬ আগস্ট ২০২০ ১১:৪১96353
  • দেশ কোনো একটা ভূখন্ড নয়, দেশ আমাদের চেতনায়। এটা ঠিক। রাষ্ট্র আমরা নিজেদের প্রয়োজনে সৃষ্টি করেছি, এবং সেটা চালাবার জন্য রাষ্ট্রযন্ত্রও বেছে নিয়েছি, তার দায়িত্ব সরকারকে দিয়েছি। এখন দেশ আর রাষ্ট্র গুলিয়ে গেছে, সরকার আমাদের নিজের টিঁকে থাকার স্বার্থে দেশের পরিভাষা শেখাচ্ছে, সরকারের নীতির সমালোচনা করলে সেটা রাষ্ট্রদ্রোহ, দেশদ্রোহ এবং শাস্তি যোগ্য অপরাধ হয়ে দাঁড়াচ্ছে।
  • নন্দিতা চৌধুরী | 45.113.90.254 | ১৭ আগস্ট ২০২০ ১২:১১96387
  • অসম্ভব ভালো লাগলো । খুব  কঠিন জিনিস , কিন্তু এত সহজ ও সুন্দর করে প্রকাশ করা হয়েছে।  লেখক কে ধন্যবাদ জানাই ।

  • নন্দিতা চৌধুরী | 45.113.90.254 | ১৭ আগস্ট ২০২০ ১২:১৬96388
  • এত সুন্দর করে ও এত সহজ করে একটা কঠিন জিনিস  লেখা হয়েছে । অসম্ভব ভালো লাগলো । 

  • কুশান | 115.187.60.1 | ১৮ আগস্ট ২০২০ ২০:৪৭96416
  • "রাষ্ট্রের স্বাধীনতা দিবস পালন করার সময়েও আমাদের মনে রাখতে হয় আমরা কিন্তু রাষ্ট্রের হাত থেকে স্বাধীন নই, আমাদের স্বাধীনতা শর্তাধীন, রাষ্ট্রাধীন।"

    সত্যি কথা খুব। আমাদের কোনো ব্যক্তিমালিকানা থেকেও যেন নেই।
  • বিপ্লব রহমান | ২০ আগস্ট ২০২০ ০৭:১৪96436
  • "রাষ্ট্রের স্বাধীনতা দিবস ধুমধামে পালিত হয়, আমার দেশ সেখানে অনুপস্থিত এবং অবহেলিত থেকে যায় প্রতিবারই"

    স্পিরিটটি ভাল লাগলো। বরাবরের মতোই সুলিখিত       

  • Nirmalya Nag | ২২ আগস্ট ২০২০ ০০:১২96496
  • খুব ভাল লাগলো।

আমার গুরুবন্ধুদের জানানকরোনা
  • মতামত দিন
  • বিষয়বস্তু*:
  • কি, কেন, ইত্যাদি
  • বাজার অর্থনীতির ধরাবাঁধা খাদ্য-খাদক সম্পর্কের বাইরে বেরিয়ে এসে এমন এক আস্তানা বানাব আমরা, যেখানে ক্রমশ: মুছে যাবে লেখক ও পাঠকের বিস্তীর্ণ ব্যবধান। পাঠকই লেখক হবে, মিডিয়ার জগতে থাকবেনা কোন ব্যকরণশিক্ষক, ক্লাসরুমে থাকবেনা মিডিয়ার মাস্টারমশাইয়ের জন্য কোন বিশেষ প্ল্যাটফর্ম। এসব আদৌ হবে কিনা, গুরুচণ্ডালি টিকবে কিনা, সে পরের কথা, কিন্তু দু পা ফেলে দেখতে দোষ কী? ... আরও ...
  • আমাদের কথা
  • আপনি কি কম্পিউটার স্যাভি? সারাদিন মেশিনের সামনে বসে থেকে আপনার ঘাড়ে পিঠে কি স্পন্ডেলাইটিস আর চোখে পুরু অ্যান্টিগ্লেয়ার হাইপাওয়ার চশমা? এন্টার মেরে মেরে ডান হাতের কড়ি আঙুলে কি কড়া পড়ে গেছে? আপনি কি অন্তর্জালের গোলকধাঁধায় পথ হারাইয়াছেন? সাইট থেকে সাইটান্তরে বাঁদরলাফ দিয়ে দিয়ে আপনি কি ক্লান্ত? বিরাট অঙ্কের টেলিফোন বিল কি জীবন থেকে সব সুখ কেড়ে নিচ্ছে? আপনার দুশ্‌চিন্তার দিন শেষ হল। ... আরও ...
  • বুলবুলভাজা
  • এ হল ক্ষমতাহীনের মিডিয়া। গাঁয়ে মানেনা আপনি মোড়ল যখন নিজের ঢাক নিজে পেটায়, তখন তাকেই বলে হরিদাস পালের বুলবুলভাজা। পড়তে থাকুন রোজরোজ। দু-পয়সা দিতে পারেন আপনিও, কারণ ক্ষমতাহীন মানেই অক্ষম নয়। বুলবুলভাজায় বাছাই করা সম্পাদিত লেখা প্রকাশিত হয়। এখানে লেখা দিতে হলে লেখাটি ইমেইল করুন, বা, গুরুচন্ডা৯ ব্লগ (হরিদাস পাল) বা অন্য কোথাও লেখা থাকলে সেই ওয়েব ঠিকানা পাঠান (ইমেইল ঠিকানা পাতার নীচে আছে), অনুমোদিত এবং সম্পাদিত হলে লেখা এখানে প্রকাশিত হবে। ... আরও ...
  • হরিদাস পালেরা
  • এটি একটি খোলা পাতা, যাকে আমরা ব্লগ বলে থাকি। গুরুচন্ডালির সম্পাদকমন্ডলীর হস্তক্ষেপ ছাড়াই, স্বীকৃত ব্যবহারকারীরা এখানে নিজের লেখা লিখতে পারেন। সেটি গুরুচন্ডালি সাইটে দেখা যাবে। খুলে ফেলুন আপনার খেরোর খাতা, লিখতে থাকুন, বানান নিজের বাংলা ব্লগ, হয়ে উঠুন একমেবাদ্বিতীয়ম হরিদাস পাল, এ সুযোগ পাবেন না আর, দেখে যান নিজের চোখে...... আরও ...
  • টইপত্তর
  • নতুন কোনো বই পড়ছেন? সদ্য দেখা কোনো সিনেমা নিয়ে আলোচনার জায়গা খুঁজছেন? নতুন কোনো অ্যালবাম কানে লেগে আছে এখনও? সবাইকে জানান। এখনই। ভালো লাগলে হাত খুলে প্রশংসা করুন। খারাপ লাগলে চুটিয়ে গাল দিন। জ্ঞানের কথা বলার হলে গুরুগম্ভীর প্রবন্ধ ফাঁদুন। হাসুন কাঁদুন তক্কো করুন। স্রেফ এই কারণেই এই সাইটে আছে আমাদের বিভাগ টইপত্তর। ... আরও ...
  • ভাটিয়া৯
  • যে যা খুশি লিখবেন৷ লিখবেন এবং পোস্ট করবেন৷ তৎক্ষণাৎ তা উঠে যাবে এই পাতায়৷ এখানে এডিটিং এর রক্তচক্ষু নেই, সেন্সরশিপের ঝামেলা নেই৷ এখানে কোনো ভান নেই, সাজিয়ে গুছিয়ে লেখা তৈরি করার কোনো ঝকমারি নেই৷ সাজানো বাগান নয়, আসুন তৈরি করি ফুল ফল ও বুনো আগাছায় ভরে থাকা এক নিজস্ব চারণভূমি৷ আসুন, গড়ে তুলি এক আড়ালহীন কমিউনিটি ... আরও ...
যোগাযোগ করুন, লেখা পাঠান এই ঠিকানায় : [email protected]
মে ১৩, ২০১৪ থেকে সাইটটি বার পঠিত