• হরিদাস পাল
  • খুলে ফেলুন আপনার খেরোর খাতা, লিখতে থাকুন, বানান নিজের বাংলা ব্লগ, হয়ে উঠুন একমেবাদ্বিতীয়ম হরিদাস পাল, এ সুযোগ পাবেন না আর, দেখে যান নিজের চোখে... (হরিদাস পাল কী?)
  • হেনরিদ্বীপের পরণকথাটি অধরা


    বিভাগ : আলোচনা | ২৫ এপ্রিল ২০২০ | ১৮৯ বার পঠিত
  • নীলকান্ত কুইতি'র চাকরিস্থল সুন্দরবন অঞ্চলের হেনরিদ্বীপ। হেনরিদ্বীপ আক্ষরিক অর্থেই ম্যাপের বাইরের জায়গা, যার কোন ঠিকানা নেই, পোস্টাল কোড নেই। আছে শুধু ল্যাটিচিউড আর লঙ্গিচিউড, আর আছে হু হু হাওয়া, আছে গাছের মাথায় ফুলের থোকার মত ঝাঁকবেঁধে বসে থাকা বোষ্টুমি বক, আছে আরো অজস্র জানা অজানা প্রকৃতির রহস্যময় উপাদান। নীলকান্তকে ভালবেসে বিয়ে করা রঞ্জনা হেনরিদ্বীপের গল্পকথা শুনে কখনো ভাবে রূপকথা, কখনো বা ডাহা মিথ্যে। ফলত তার কলকাতার গলির মধ্যে ছোট্ট সংসারটুকু সর্বদাই টলমল করে। রঞ্জনা তার শিশুকন্যার লেখাপড়া ভবিষ্যত নিয়ে উদ্বিগ্ন, নীল তার ঠিকানাহীন ঠিকানাটুকুর অস্তিত্ব রক্ষার জন্য উদ্বিগ্ন আর এরই মাঝে গুটি গুটি পায়ে হেনরিদ্বীপের দিকে এগিয়ে আসে 'উন্নয়ন' তার শতবাহু প্রসারিত করে।

    ১৩৮; পাতার বইটির পাতায় পাতায় জল জঙ্গলের জন্য অপরূপ মায়া জড়িয়ে। পরিবেশপ্রেমী মানে রাষ্ট্রবিরোধী - এই সমীকরণ চালু হয়েছে তা বেশ কিছু বছর হল। এই সমীকরণকেই অসহায় তীব্রতায় প্রশ্ন করতে চায় এই বই।

    বইটি পড়তে পড়তে আমার বারেবারে মনে পড়ছিল শৌভেন্দ্র হাঁসদা'র মিস্টিরিয়াস এইলমেন্ট অব রূপী বাস্কে বইটির কথা। সে বইয়েরও পরতে পরতে প্রকৃতি ও তার বিবিধ সন্তানদের কথা, তাদের মধ্যে ভেঙেগড়ে যাওয়া সম্পর্কের কথা। চক্রধরপুর অঞ্চলের ছায়া ছায়া অবয়ব নিয়ে শুরু হয় রূপী বাস্কের গল্প।বই শেষ হতে হতে রক্ত মাংস গাছপালা পাখিপক্ষী নিয়ে তার এক জলছবি গড়ে ওঠে পাঠকের মনে। সে বইতে সভ্যতা, উন্নয়ন এগিয়ে এসে মুক্তি দেয় নারীকে ভুত জ্বিন দানোদের থেকে। বইয়ের শুরুতে হেনরিদ্বীপও এক কুয়াশাঘেরা রূপকথার দেশ হয়ে ধরা দেয় পাঠকের সামনে, যার একটা আদল আছে কিন্তু স্পষ্ট কোন অবয়ব গড়ে ওঠে নি তখনো। কিন্তু বই শেষ করেও হেনরিদ্বীপের ছবিটি পুরো গড়ে ওঠে না মনের মধ্যে। চক্রধরপুর যদি এই পৃথিবীতে আদৌ নাও থাকত, তবু রূপী বাস্কে পড়লে পাঠকের মনে তার নিজস্ব এক সিংভুম অঞ্চল গড়ে ওঠে। রূপী আর তার আত্মীয়বন্ধু নারীগুলি উদয়াস্ত খাটে, সংসারে সুরাহা হয় তাদের শ্রমে। সে তুলনায় এ বইয়ের নারীরা উপার্জনক্ষম নয় কেউই। কেন নয় সে প্রশ্নের উত্তর পাই নি। রঞ্জনার মূল উদ্বেগ সংসারের স্বাচ্ছল্য, শিশুটির ভবিষ্যত। কিন্তু তার জন্য সে নিজে কোনই উদ্যোগ নেয় না। বইয়ের বেশ খানিক অংশ জুড়ে রঞ্জনা চরিত্রটি স্রেফ বিরক্তি জাগায়। এইজন্যই শেষের চমকটি আমার মনে তেমন দাগ কাটে নি। বইটির শুরু যথেষ্ট আশাজাগানিয়া হলেও শেষ করে হতাশই হয়েছি। আমার কাছে হেনরিদ্বীপের পরণকথাটি অধরাই থেকে গেল বলে মনে হয়েছে।

    #মাসকাবারি_বইপত্তর
    বই - হেনরিদ্বীপের পরণকথা
    লেখক - অভিজিৎ সেনগুপ্ত
    প্রকাশক - গুরুচন্ডা৯
    দাম - ১২০/-

  • বিভাগ : আলোচনা | ২৫ এপ্রিল ২০২০ | ১৮৯ বার পঠিত
  • আমার গুরুবন্ধুদের জানানকরোনা ভাইরাস

  • পাতা : 1
  • রমেন | 108.162.229.163 | ২৬ এপ্রিল ২০২০ ০৮:০৩92686
  • কিনব না।  পড়তে চাই কথায় পাব?

  • করোনা ভাইরাস

  • পাতা : 1
  • গুরুর মোবাইল অ্যাপ চান? খুব সহজ, অ্যাপ ডাউনলোড/ইনস্টল কিস্যু করার দরকার নেই । ফোনের ব্রাউজারে সাইট খুলুন, Add to Home Screen করুন, ইন্সট্রাকশন ফলো করুন, অ্যাপ-এর আইকন তৈরী হবে । খেয়াল রাখবেন, গুরুর মোবাইল অ্যাপ ব্যবহার করতে হলে গুরুতে লগইন করা বাঞ্ছনীয়।
  • কি, কেন, ইত্যাদি
  • বাজার অর্থনীতির ধরাবাঁধা খাদ্য-খাদক সম্পর্কের বাইরে বেরিয়ে এসে এমন এক আস্তানা বানাব আমরা, যেখানে ক্রমশ: মুছে যাবে লেখক ও পাঠকের বিস্তীর্ণ ব্যবধান। পাঠকই লেখক হবে, মিডিয়ার জগতে থাকবেনা কোন ব্যকরণশিক্ষক, ক্লাসরুমে থাকবেনা মিডিয়ার মাস্টারমশাইয়ের জন্য কোন বিশেষ প্ল্যাটফর্ম। এসব আদৌ হবে কিনা, গুরুচণ্ডালি টিকবে কিনা, সে পরের কথা, কিন্তু দু পা ফেলে দেখতে দোষ কী? ... আরও ...
  • আমাদের কথা
  • আপনি কি কম্পিউটার স্যাভি? সারাদিন মেশিনের সামনে বসে থেকে আপনার ঘাড়ে পিঠে কি স্পন্ডেলাইটিস আর চোখে পুরু অ্যান্টিগ্লেয়ার হাইপাওয়ার চশমা? এন্টার মেরে মেরে ডান হাতের কড়ি আঙুলে কি কড়া পড়ে গেছে? আপনি কি অন্তর্জালের গোলকধাঁধায় পথ হারাইয়াছেন? সাইট থেকে সাইটান্তরে বাঁদরলাফ দিয়ে দিয়ে আপনি কি ক্লান্ত? বিরাট অঙ্কের টেলিফোন বিল কি জীবন থেকে সব সুখ কেড়ে নিচ্ছে? আপনার দুশ্‌চিন্তার দিন শেষ হল। ... আরও ...
  • বুলবুলভাজা
  • এ হল ক্ষমতাহীনের মিডিয়া। গাঁয়ে মানেনা আপনি মোড়ল যখন নিজের ঢাক নিজে পেটায়, তখন তাকেই বলে হরিদাস পালের বুলবুলভাজা। পড়তে থাকুন রোজরোজ। দু-পয়সা দিতে পারেন আপনিও, কারণ ক্ষমতাহীন মানেই অক্ষম নয়। বুলবুলভাজায় বাছাই করা সম্পাদিত লেখা প্রকাশিত হয়। এখানে লেখা দিতে হলে লেখাটি ইমেইল করুন, বা, গুরুচন্ডা৯ ব্লগ (হরিদাস পাল) বা অন্য কোথাও লেখা থাকলে সেই ওয়েব ঠিকানা পাঠান (ইমেইল ঠিকানা পাতার নীচে আছে), অনুমোদিত এবং সম্পাদিত হলে লেখা এখানে প্রকাশিত হবে। ... আরও ...
  • হরিদাস পালেরা
  • এটি একটি খোলা পাতা, যাকে আমরা ব্লগ বলে থাকি। গুরুচন্ডালির সম্পাদকমন্ডলীর হস্তক্ষেপ ছাড়াই, স্বীকৃত ব্যবহারকারীরা এখানে নিজের লেখা লিখতে পারেন। সেটি গুরুচন্ডালি সাইটে দেখা যাবে। খুলে ফেলুন আপনার খেরোর খাতা, লিখতে থাকুন, বানান নিজের বাংলা ব্লগ, হয়ে উঠুন একমেবাদ্বিতীয়ম হরিদাস পাল, এ সুযোগ পাবেন না আর, দেখে যান নিজের চোখে...... আরও ...
  • টইপত্তর
  • নতুন কোনো বই পড়ছেন? সদ্য দেখা কোনো সিনেমা নিয়ে আলোচনার জায়গা খুঁজছেন? নতুন কোনো অ্যালবাম কানে লেগে আছে এখনও? সবাইকে জানান। এখনই। ভালো লাগলে হাত খুলে প্রশংসা করুন। খারাপ লাগলে চুটিয়ে গাল দিন। জ্ঞানের কথা বলার হলে গুরুগম্ভীর প্রবন্ধ ফাঁদুন। হাসুন কাঁদুন তক্কো করুন। স্রেফ এই কারণেই এই সাইটে আছে আমাদের বিভাগ টইপত্তর। ... আরও ...
  • ভাটিয়া৯
  • যে যা খুশি লিখবেন৷ লিখবেন এবং পোস্ট করবেন৷ তৎক্ষণাৎ তা উঠে যাবে এই পাতায়৷ এখানে এডিটিং এর রক্তচক্ষু নেই, সেন্সরশিপের ঝামেলা নেই৷ এখানে কোনো ভান নেই, সাজিয়ে গুছিয়ে লেখা তৈরি করার কোনো ঝকমারি নেই৷ সাজানো বাগান নয়, আসুন তৈরি করি ফুল ফল ও বুনো আগাছায় ভরে থাকা এক নিজস্ব চারণভূমি৷ আসুন, গড়ে তুলি এক আড়ালহীন কমিউনিটি ... আরও ...
যোগাযোগ করুন, লেখা পাঠান এই ঠিকানায় : [email protected]
মে ১৩, ২০১৪ থেকে সাইটটি বার পঠিত