• হরিদাস পাল  গপ্পো

  • ভূতের গল্প

    Mahua Dasgupta লেখকের গ্রাহক হোন
    গপ্পো | ০৬ ডিসেম্বর ২০২০ | ২৮৫ বার পঠিত
  • পছন্দ
    জমিয়ে রাখুন পুনঃপ্রচার
  • #গল্প


    #ভয়ের গল্প


    #মহুয়া দাশগুপ্ত


    শীত পড়লে মনের ভিতর ঘরে কাঠকুটো সাজিয়ে জ্বলে ওঠে গার্হপত্য অগ্নি। আমার সূক্ষ্ম শরীর চাষাভুষোদের মতো উবু হয়ে বসে। দুই হাতে তাপ নিতে নিতে ভাবতে থাকে এতোল বেতোল কথা। দুয়ারে দাঁড়ায় কমলালেবুর কোয়ার রঙের অসুখ। আমি তার দিকে পিঠ ফিরিয়ে বসে থাকি টানটান হয়ে। এই আগুন গোপনীয়তার শর্তে জ্বলে ওঠে। একলা একলা জারিয়ে নিই উত্তাপ। অসুখের গন্ধ কাটাতে ধূপ জ্বালাই। রোজদিনই প্রায় এমন করছি আজকাল । মালগুড়ি ডেজের সেই মেয়েটার কথা মনে হয়। বাতাসের শরীরে শিরশিরানি লাগে। ঘেঁষে বসি আগুনমুখো হয়ে। 


    গল্পের নাম আজকাল মনে থাকে না। সব ভুলে গিয়েছি। শুধু কয়েকটা দৃশ্য মনে আছে। শুধু ওই সুরটা কানে বাজে— তা না না না না না না না না!কেরালার একটা গ্রামের ঘরের বৌ একটা মন্ত্র জানতো। গভীর জঙ্গলে কেউ ওই মন্ত্র বললে অন্যজন গাছ হয়ে যেতে পারতো। ফুলে ভরা ঝাঁকড়া মাথাওয়ালা  বৃক্ষ !কথাটা ওর এক বান্ধবী জানতে পেরে ওকে জোর করে নিয়ে যায় অরণ্যে। বান্ধবী মন্ত্র শিখে উচ্চারণ করতেই গ্রাম্য বধূ গাছ হতে শুরু করে, শরীর বদলে যায় কাণ্ড , শাখা, পাতা ও ফুলে। পুরোপুরি গাছ হওয়া দেখতে দেখতে ভয়ে হতবাক বান্ধবীর জানাই হয় না , আবার গাছ থেকে  মানুষ করার মন্ত্রটা। গাছ হয়ে যাবার পরে মেয়েটি আর জানাবে কী করে?আতঙ্কে সেই বান্ধবী সদ্য গাছ হয়ে যাওয়া মেয়েটির স্বামীকে সব বলে।ওই রূপান্তরিত গাছটিকে বাড়ি এনে বাঁচিয়ে রাখে তার স্বামী।  ছেলেটি সাধু সন্ন্যাসীর কাছে গিয়ে  জানতে পারে একটা মন্ত্র ওকে অর্ধেক শরীর ফিরিয়ে দেবে। আরেকটি মন্ত্র বলতে হবে ওই অরণ্যে গিয়ে। একইরকম আরেকটি গাছের কাছে দাঁড়িয়ে। প্রথম মন্ত্রে গাছের উপরের দিকটা বদলে যায়। সেই পরিচিত মায়ভরা মুখ, কপালে কুঙ্কুম,  দিঘল দুটি  সজল চোখ ফিয়ে আসে অনেক নস্টালজিয়া নিয়ে। গলা থেকে কোমর পর্যন্ত যুবতী শরীর আসে মন্ত্রের জোরেই। ছেলেটি পরম যত্নে জামা , ওড়না পরিয়ে দেয় অর্ধশরীরটিকে। আদরে আবেগে আশ্বাসে ভরাট করে মেয়েটির মন। কিন্তু মেয়েটির কোমর থেকে পায়ের পাতা তো কাঠ যেন! কঠিন কাণ্ড! সেইদিকে চেয়ে ছেলেটির বুক শিউরে ওঠে। একটা ভ্যানে করে গাছমানুষটিকে নিয়ে বেরিয়ে পড়ে। একটিই কাজ বাকি। অমন একটা গাছে ঠেস দিয়ে দ্বিতীয় মন্ত্র বলবে। ফিরে পাবে মেয়েটিকে। দুজনের চোখেই গভীর প্রেম, ভয়াল উদ্বেগ। জঙ্গলে এসে ওরা দেখে এক চোরা কাঠুরে একরাতে কেটে নিয়েছে প্রায় সব গাছ।  কিছুতেই বোঝা যাচ্ছে না ওই ম্যাজিক গাছ কোনটা । যে গাছটা মেয়েটির কোমর থেকে পায়ের পাতাকে প্রাণবন্ত করবে আবার। ছেলেটি একটা একটা করে গাছের কাছে যায় আর চিৎকার  করে কাঁদে। মাথা ঠোকে। মেয়েটি বৃক্ষশরীর নিয়ে ফ্যালফ্যাল করে চায়। শেষে ওই ভ্যানে করে একইভাবে ফিরতে থাকে ওরা। 


    এই গল্পটায় ভূত নেই । কিন্তু আমি ভয় পাই এই গল্পটাকে। আজ প্রায় ছয়মাস হলো আমি কোমর থেকে পায়ের আঙুলটা নাড়াতে পারছি না। স্বপ্নে আমি রোজ একটা ওষধি বৃক্ষ খুঁজতে বেরোই। আমার আর শীতের আগুন পোহানো হয় না।

  • বিভাগ : গপ্পো | ০৬ ডিসেম্বর ২০২০ | ২৮৫ বার পঠিত
  • পছন্দ
    জমিয়ে রাখুন গ্রাহক পুনঃপ্রচার
  • মতামত দিন
  • বিষয়বস্তু*:
  • কি, কেন, ইত্যাদি
  • বাজার অর্থনীতির ধরাবাঁধা খাদ্য-খাদক সম্পর্কের বাইরে বেরিয়ে এসে এমন এক আস্তানা বানাব আমরা, যেখানে ক্রমশ: মুছে যাবে লেখক ও পাঠকের বিস্তীর্ণ ব্যবধান। পাঠকই লেখক হবে, মিডিয়ার জগতে থাকবেনা কোন ব্যকরণশিক্ষক, ক্লাসরুমে থাকবেনা মিডিয়ার মাস্টারমশাইয়ের জন্য কোন বিশেষ প্ল্যাটফর্ম। এসব আদৌ হবে কিনা, গুরুচণ্ডালি টিকবে কিনা, সে পরের কথা, কিন্তু দু পা ফেলে দেখতে দোষ কী? ... আরও ...
  • আমাদের কথা
  • আপনি কি কম্পিউটার স্যাভি? সারাদিন মেশিনের সামনে বসে থেকে আপনার ঘাড়ে পিঠে কি স্পন্ডেলাইটিস আর চোখে পুরু অ্যান্টিগ্লেয়ার হাইপাওয়ার চশমা? এন্টার মেরে মেরে ডান হাতের কড়ি আঙুলে কি কড়া পড়ে গেছে? আপনি কি অন্তর্জালের গোলকধাঁধায় পথ হারাইয়াছেন? সাইট থেকে সাইটান্তরে বাঁদরলাফ দিয়ে দিয়ে আপনি কি ক্লান্ত? বিরাট অঙ্কের টেলিফোন বিল কি জীবন থেকে সব সুখ কেড়ে নিচ্ছে? আপনার দুশ্‌চিন্তার দিন শেষ হল। ... আরও ...
  • বুলবুলভাজা
  • এ হল ক্ষমতাহীনের মিডিয়া। গাঁয়ে মানেনা আপনি মোড়ল যখন নিজের ঢাক নিজে পেটায়, তখন তাকেই বলে হরিদাস পালের বুলবুলভাজা। পড়তে থাকুন রোজরোজ। দু-পয়সা দিতে পারেন আপনিও, কারণ ক্ষমতাহীন মানেই অক্ষম নয়। বুলবুলভাজায় বাছাই করা সম্পাদিত লেখা প্রকাশিত হয়। এখানে লেখা দিতে হলে লেখাটি ইমেইল করুন, বা, গুরুচন্ডা৯ ব্লগ (হরিদাস পাল) বা অন্য কোথাও লেখা থাকলে সেই ওয়েব ঠিকানা পাঠান (ইমেইল ঠিকানা পাতার নীচে আছে), অনুমোদিত এবং সম্পাদিত হলে লেখা এখানে প্রকাশিত হবে। ... আরও ...
  • হরিদাস পালেরা
  • এটি একটি খোলা পাতা, যাকে আমরা ব্লগ বলে থাকি। গুরুচন্ডালির সম্পাদকমন্ডলীর হস্তক্ষেপ ছাড়াই, স্বীকৃত ব্যবহারকারীরা এখানে নিজের লেখা লিখতে পারেন। সেটি গুরুচন্ডালি সাইটে দেখা যাবে। খুলে ফেলুন আপনার খেরোর খাতা, লিখতে থাকুন, বানান নিজের বাংলা ব্লগ, হয়ে উঠুন একমেবাদ্বিতীয়ম হরিদাস পাল, এ সুযোগ পাবেন না আর, দেখে যান নিজের চোখে...... আরও ...
  • টইপত্তর
  • নতুন কোনো বই পড়ছেন? সদ্য দেখা কোনো সিনেমা নিয়ে আলোচনার জায়গা খুঁজছেন? নতুন কোনো অ্যালবাম কানে লেগে আছে এখনও? সবাইকে জানান। এখনই। ভালো লাগলে হাত খুলে প্রশংসা করুন। খারাপ লাগলে চুটিয়ে গাল দিন। জ্ঞানের কথা বলার হলে গুরুগম্ভীর প্রবন্ধ ফাঁদুন। হাসুন কাঁদুন তক্কো করুন। স্রেফ এই কারণেই এই সাইটে আছে আমাদের বিভাগ টইপত্তর। ... আরও ...
  • ভাটিয়া৯
  • যে যা খুশি লিখবেন৷ লিখবেন এবং পোস্ট করবেন৷ তৎক্ষণাৎ তা উঠে যাবে এই পাতায়৷ এখানে এডিটিং এর রক্তচক্ষু নেই, সেন্সরশিপের ঝামেলা নেই৷ এখানে কোনো ভান নেই, সাজিয়ে গুছিয়ে লেখা তৈরি করার কোনো ঝকমারি নেই৷ সাজানো বাগান নয়, আসুন তৈরি করি ফুল ফল ও বুনো আগাছায় ভরে থাকা এক নিজস্ব চারণভূমি৷ আসুন, গড়ে তুলি এক আড়ালহীন কমিউনিটি ... আরও ...
যোগাযোগ করুন, লেখা পাঠান এই ঠিকানায় : [email protected]
মে ১৩, ২০১৪ থেকে সাইটটি বার পঠিত


পড়েই ক্ষান্ত দেবেন না। লড়াকু মতামত দিন