• বুলবুলভাজা  আলোচনা  বিবিধ

    Share
  • বিজ্ঞাপনের মেয়ে

    চৈতালী চট্টোপাধ্যায় লেখকের গ্রাহক হোন
    আলোচনা | বিবিধ | ০৮ মার্চ ২০২০ | ৪০৯ বার পঠিত | জমিয়ে রাখুন পুনঃসম্প্রচার
  • একটা কবিতা লিখেছিলাম...
    কিছুটা অংশজুড়ে মেয়েদের কথাও বলা যাবে। তাদের বুক,নিতম্ব,
    নশ্বর যৌবনচর্চা। কিন্তু খুব সাবধান, সুগন্ধি রুমাল আগলানোর মতো,
    যাতে তারা বুঝতে না পারে অপমান।
    - এই শাড়ি পরুন। পুরুষ মনোযোগ দেবে।গাড়ি চেপে
    যেতে যেতে ফিরে ফিরে চুম্বন চাইবে...
    - ক্রিমটি মাখুন।এই যে!এমন লাবণ্য ফুটবে,প্রিয়সঙ্গী অনুগত হবে...
    - দেখুন, আশ্চর্য জুয়েলারি! অনেক মেয়ের ভিড় থেকে, ওকে
    ফিরিয়ে আনার আলো জোগাবে আপনাকে...
    আমি কপিরাইটার। গৃহবধূদের জন্য ফের লিখি : এ-সেই
    ওয়াশিং মেশিন, শুধু মাথা ঢোকান,দু মিনিট! বাইরে আনুন -
    চোখ যা দেখবে সব ঝাঁ চকচকে

    আমার লেখার উপজীব্য যদি হয়, বিজ্ঞাপনের জগতে মেয়েরা,বেদম ধন্দে পড়ে যাই আমি!কোন জগত? কোন মেয়েরা? যেসব বিজ্ঞাপন সংস্থায় রাত নামে না কখনও, যেখানে হাততালি দিতে দিতে সমানে ছুটে যাচ্ছে মেয়েরা, তাদের কথা? যাদের থাকে শুধু অন্ধকারসম্বল প্লাস্টিক আলো আর মুখোমুখি বসিবার ক্রেতা ও ক্লায়েন্ট!
    অ্যাড এজেন্সিতে চাকরি নেয়ার মুখে পাড়া প্রতিবেশী গুছিয়ে আমার বাড়ির মানুষদের খবর দিয়ে গেছিল,এসব জায়গা ভদ্রঘরের মেয়েদের জন্য নয়। শুয়েবসে কাজ করতে হয়। বিজ্ঞাপন সংস্থার রন্ধনশালাটিতে মেধায় আগুন দিয়ে সুস্বাদু বিজ্ঞাপন বানানোর আগেই,লক্ষ করুন,একটি মেয়ে বিজ্ঞাপিত হয়ে যাচ্ছে লালসামাখা পণ্যরূপে।হ্যাঁ। কোনও বিজ্ঞাপন যাঁরা বিজ্ঞাপনটি দিচ্ছেন তাঁরা পছন্দ করবেন কি না তার ওপর অনেকক্ষেত্রেই নির্ভর করে সংস্থাটির উজ্জ্বল অথবা মলিন ভবিষ্যৎ। তাই এটা বলার অপেক্ষা রাখে না যে ক্লায়েন্ট মিটিঙে সঙ্গে খুশবু-ছড়ানো অ্যাকাউন্ট এক্সিকিউটিভ কিংবা ক্রিয়েটিভ হেড নারী থাকাটা অনেককিছুই সংযোজন করে। এ-ও বিজ্ঞাপন।লিঙ্গনির্ভর।সবযুগে।সবসময়। পাথরকুচির মতো অপমান ছড়ানো পথে চলতে চলতে নারী বিজ্ঞাপিত হয়।

    নাকি, আমি বলব পারিবারিক ও সামাজিক জগতের কথা? যেখানে জন্মের পরপরই মেয়েদের প্রপস্ কিংবা প্রডাক্ট বানানোর জন্য, উত্তমরূপে বিজ্ঞাপিত করার জন্য তৈরি থাকবে ফ্লাডলাইট ও রিফ্লেকটর!
    আমার মনে আছে, মানে,পরে শুনেছি আর কী,খ্যাঁদা নাকের কারণ হেতু, জন্মানোর পরই নাকি ঠাকুমা বিষম চিন্তিতভাবে মাকে বলেছিলেন,রোজ তেল দিয়ে নাক টানতে। নাহলে বিয়ের বাজারে আমার দর একদম পড়ে যাবে!
    দিদি ছিল উজ্জ্বল শ্যামবর্ণা।তাকেও নাকি কচিবেলায় চাঁদের আলোয় ফেলে রাখা হত। ময়লা রঙ কেটে যাবে,সেই আশায়।
    এভাবেই, নানা চটকদার মোড়কে সাজিয়ে বিজ্ঞাপন না করলে পিতৃতন্ত্র নারী নাম্নী ভোগ্যবস্তুটিতে আকৃষ্ট হবেই-বা কেন! আমরা কি বাজার থেকে কানা বেগুন,পোকাধরা ফুলকপি কিনতে চাই কখনও? ফিরেও তাকাই না সেদিকে।

    রোজ যে অজস্র মহিলা রেললাইন টপকে লোকাল রেলগাড়িতে ঝুলে- ঝুলে বাবুদের বাড়িতে কাজ করতে আসে,তাদেরও সর্বাঙ্গে বিজ্ঞাপন পরে নিতে হয় বই কী! একটু হাসিমুখ।স্মার্ট কথাবার্তা। প্রেজেন্টেবল্ সাজগোজ।আর পাঁচজনের সঙ্গে প্রতিযোগিতায় নেমে তারও তো ইউ এস পি প্রয়োজন। নয়তো, মালতির পরিবর্তে মিনতি লোকের বাড়ি ঠিকে কাজ ধরবে কীভাবে!
    মেয়েরা প্রত্যক্ষ ও পরোক্ষ নানারকমেই বিজ্ঞাপন-সংলগ্ন। আগে, ছেলেদের দাড়ি কামানোর সাবান থেকে শুরু করে,টু-হুইলার, সবেতেই মেয়ে মডেল দেখতাম।এইসব বিজ্ঞাপনে যৌনতা ফণা তুলত।এখন মেয়েদের বিজ্ঞাপনে ব্যবহার করা নিয়ে অনেক সতর্কতা।এক ছটাক সামাজিক বাণীর সঙ্গে,পোয়া ছটাক নারী সাম্যের গান গাইতে হয়।এরই মধ্যে হঠাৎ আলোর মতো একটু ক্লিভেজ, যৎসামান্য কোমর, দেখানো হয়ে যায়!

    বাঁশবনে ডোম কানা!তো,বিশ্ব এক অনন্ত বিজ্ঞাপনশালা। সেখানে দাঁড়িয়ে আমি আহাম্মকের মতো খুঁজতে থাকি পাঁচ থেকে পঁচাশি বছর বয়স অবধি সেই মেয়েদের। দেখতে পাই একে একে...নাকে শিকনি গড়ানো পুঁতির মালা-পরা শিশুকন্যাটিকে। আঙুলের ডগায় বাসি হলুদের দাগছোপ-ধরা মেয়েটিকে।কনে-দেখা আলোয় পাত্রপক্ষের সামনে বাজারে বসে-থাকা মেয়েটিকে।কাঠকুটো মাথায় নিয়ে একলা জঙ্গলে রাস্তায় হেঁটে-যাওয়া আদিবাসী নারীটিকে। নয়ানজুলিতে পড়ে-থাকা ধর্ষিতা কিশোরীকেও দেখি একঝলক।এইমাত্র ল্যাপটপ মুড়ে রেখে কানে ইয়ারফোন গুঁজে, শুয়ে পড়লো যে-তরুণী,তাকেও দেখি।দেখি, দিনান্তে কাজশেষে, অনেক ছেলেপুলে নিয়ে, তাদের ক-অক্ষর শেখাতে বসেছে যে মেয়ে,সেই তাকেও।আর, এভাবেই দেখে ফেলি প্রান্তিক সেই তাকে,খোঁপাসহ মাথাটি যে,আস্তে, নামিয়ে দিল জ্বলন্ত গ্যাস-আভেনে।
    দিগন্ত ছোঁয়া যায় না।সেই দিগন্তে, নতুন-নতুন সাদাকালো,সিপিয়া কিংবা রামধনু রঙে বিজ্ঞাপনের কপি লিখে টাঙিয়ে দেব আমি, এবার ,এই বসন্তে,তোমাদের চোখ বদলের জন্য।
    তবে এইসব ট্যাগলাইনের কল্যাণে বিজ্ঞাপনের মেয়েরা সম্মানিত না অসম্মানিত হবে,সে তো অন্য লড়াইয়ের গপ্পো।
  • বিভাগ : আলোচনা | ০৮ মার্চ ২০২০ | ৪০৯ বার পঠিত | | জমিয়ে রাখুন পুনঃসম্প্রচার
    Share
আমার গুরুবন্ধুদের জানানকরোনা
  • মতামত দিন
  • বিষয়বস্তু*:
  • শর্মিষ্ঠা দাস | 162.158.167.193 | ০৮ মার্চ ২০২০ ১৮:৩৩91285
  • চমৎকারা বা আরো কিছু--
    মডুউলার কিচেন --মেয়েভোলানার এক নতুন চুষিকাঠি ।
  • শর্মিষ্ঠা দাস | 162.158.167.193 | ০৮ মার্চ ২০২০ ১৮:৩৩91284
  • চমৎকারা বা আরো কিছু--
    মডুউলার কিচেন --মেয়েভোলানার এক নতুন চুষিকাঠি ।
  • শর্মিষ্ঠা দাস | 162.158.167.193 | ০৮ মার্চ ২০২০ ১৮:৩৩91283
  • চমৎকারা বা আরো কিছু--
    মডুউলার কিচেন --মেয়েভোলানার এক নতুন চুষিকাঠি ।
  • শর্মিষ্ঠা দাস | 162.158.167.193 | ০৮ মার্চ ২০২০ ১৮:৩৩91282
  • চমৎকারা বা আরো কিছু--
    মডুউলার কিচেন --মেয়েভোলানার এক নতুন চুষিকাঠি ।
  • শর্মিষ্ঠা দাস | 162.158.167.193 | ০৮ মার্চ ২০২০ ১৮:৩৩91281
  • চমৎকারা বা আরো কিছু--
    মডুউলার কিচেন --মেয়েভোলানার এক নতুন চুষিকাঠি ।
  • শর্মিষ্ঠা দাস | 162.158.167.193 | ০৮ মার্চ ২০২০ ১৮:৩৩91280
  • চমৎকারা বা আরো কিছু--
    মডুউলার কিচেন --মেয়েভোলানার এক নতুন চুষিকাঠি ।
  • শর্মিষ্ঠা দাস | 162.158.167.193 | ০৮ মার্চ ২০২০ ১৮:৩৩91279
  • চমৎকারা বা আরো কিছু--
    মডুউলার কিচেন --মেয়েভোলানার এক নতুন চুষিকাঠি ।
  • শর্মিষ্ঠা দাস | 162.158.167.193 | ০৮ মার্চ ২০২০ ১৮:৩৩91287
  • চমৎকারা বা আরো কিছু--
    মডুউলার কিচেন --মেয়েভোলানার এক নতুন চুষিকাঠি ।
  • শর্মিষ্ঠা দাস | 162.158.167.193 | ০৮ মার্চ ২০২০ ১৮:৩৩91286
  • চমৎকারা বা আরো কিছু--
    মডুউলার কিচেন --মেয়েভোলানার এক নতুন চুষিকাঠি ।
  • শর্মিষ্ঠা দাস | 162.158.167.193 | ০৮ মার্চ ২০২০ ১৮:৩৩91289
  • চমৎকারা বা আরো কিছু--
    মডুউলার কিচেন --মেয়েভোলানার এক নতুন চুষিকাঠি ।
  • শর্মিষ্ঠা দাস | 162.158.167.193 | ০৮ মার্চ ২০২০ ১৮:৩৩91288
  • চমৎকারা বা আরো কিছু--
    মডুউলার কিচেন --মেয়েভোলানার এক নতুন চুষিকাঠি ।
  • শর্মিষ্ঠা দাস | 162.158.167.193 | ০৮ মার্চ ২০২০ ১৮:৩৩91290
  • চমৎকারা বা আরো কিছু--
    মডুউলার কিচেন --মেয়েভোলানার এক নতুন চুষিকাঠি ।
আমার গুরুবন্ধুদের জানানকরোনা
  • মতামত দিন
  • বিষয়বস্তু*:
  • কি, কেন, ইত্যাদি
  • বাজার অর্থনীতির ধরাবাঁধা খাদ্য-খাদক সম্পর্কের বাইরে বেরিয়ে এসে এমন এক আস্তানা বানাব আমরা, যেখানে ক্রমশ: মুছে যাবে লেখক ও পাঠকের বিস্তীর্ণ ব্যবধান। পাঠকই লেখক হবে, মিডিয়ার জগতে থাকবেনা কোন ব্যকরণশিক্ষক, ক্লাসরুমে থাকবেনা মিডিয়ার মাস্টারমশাইয়ের জন্য কোন বিশেষ প্ল্যাটফর্ম। এসব আদৌ হবে কিনা, গুরুচণ্ডালি টিকবে কিনা, সে পরের কথা, কিন্তু দু পা ফেলে দেখতে দোষ কী? ... আরও ...
  • আমাদের কথা
  • আপনি কি কম্পিউটার স্যাভি? সারাদিন মেশিনের সামনে বসে থেকে আপনার ঘাড়ে পিঠে কি স্পন্ডেলাইটিস আর চোখে পুরু অ্যান্টিগ্লেয়ার হাইপাওয়ার চশমা? এন্টার মেরে মেরে ডান হাতের কড়ি আঙুলে কি কড়া পড়ে গেছে? আপনি কি অন্তর্জালের গোলকধাঁধায় পথ হারাইয়াছেন? সাইট থেকে সাইটান্তরে বাঁদরলাফ দিয়ে দিয়ে আপনি কি ক্লান্ত? বিরাট অঙ্কের টেলিফোন বিল কি জীবন থেকে সব সুখ কেড়ে নিচ্ছে? আপনার দুশ্‌চিন্তার দিন শেষ হল। ... আরও ...
  • বুলবুলভাজা
  • এ হল ক্ষমতাহীনের মিডিয়া। গাঁয়ে মানেনা আপনি মোড়ল যখন নিজের ঢাক নিজে পেটায়, তখন তাকেই বলে হরিদাস পালের বুলবুলভাজা। পড়তে থাকুন রোজরোজ। দু-পয়সা দিতে পারেন আপনিও, কারণ ক্ষমতাহীন মানেই অক্ষম নয়। বুলবুলভাজায় বাছাই করা সম্পাদিত লেখা প্রকাশিত হয়। এখানে লেখা দিতে হলে লেখাটি ইমেইল করুন, বা, গুরুচন্ডা৯ ব্লগ (হরিদাস পাল) বা অন্য কোথাও লেখা থাকলে সেই ওয়েব ঠিকানা পাঠান (ইমেইল ঠিকানা পাতার নীচে আছে), অনুমোদিত এবং সম্পাদিত হলে লেখা এখানে প্রকাশিত হবে। ... আরও ...
  • হরিদাস পালেরা
  • এটি একটি খোলা পাতা, যাকে আমরা ব্লগ বলে থাকি। গুরুচন্ডালির সম্পাদকমন্ডলীর হস্তক্ষেপ ছাড়াই, স্বীকৃত ব্যবহারকারীরা এখানে নিজের লেখা লিখতে পারেন। সেটি গুরুচন্ডালি সাইটে দেখা যাবে। খুলে ফেলুন আপনার খেরোর খাতা, লিখতে থাকুন, বানান নিজের বাংলা ব্লগ, হয়ে উঠুন একমেবাদ্বিতীয়ম হরিদাস পাল, এ সুযোগ পাবেন না আর, দেখে যান নিজের চোখে...... আরও ...
  • টইপত্তর
  • নতুন কোনো বই পড়ছেন? সদ্য দেখা কোনো সিনেমা নিয়ে আলোচনার জায়গা খুঁজছেন? নতুন কোনো অ্যালবাম কানে লেগে আছে এখনও? সবাইকে জানান। এখনই। ভালো লাগলে হাত খুলে প্রশংসা করুন। খারাপ লাগলে চুটিয়ে গাল দিন। জ্ঞানের কথা বলার হলে গুরুগম্ভীর প্রবন্ধ ফাঁদুন। হাসুন কাঁদুন তক্কো করুন। স্রেফ এই কারণেই এই সাইটে আছে আমাদের বিভাগ টইপত্তর। ... আরও ...
  • ভাটিয়া৯
  • যে যা খুশি লিখবেন৷ লিখবেন এবং পোস্ট করবেন৷ তৎক্ষণাৎ তা উঠে যাবে এই পাতায়৷ এখানে এডিটিং এর রক্তচক্ষু নেই, সেন্সরশিপের ঝামেলা নেই৷ এখানে কোনো ভান নেই, সাজিয়ে গুছিয়ে লেখা তৈরি করার কোনো ঝকমারি নেই৷ সাজানো বাগান নয়, আসুন তৈরি করি ফুল ফল ও বুনো আগাছায় ভরে থাকা এক নিজস্ব চারণভূমি৷ আসুন, গড়ে তুলি এক আড়ালহীন কমিউনিটি ... আরও ...
যোগাযোগ করুন, লেখা পাঠান এই ঠিকানায় : [email protected]
মে ১৩, ২০১৪ থেকে সাইটটি বার পঠিত