• হরিদাস পাল
  • খুলে ফেলুন আপনার খেরোর খাতা, লিখতে থাকুন, বানান নিজের বাংলা ব্লগ, হয়ে উঠুন একমেবাদ্বিতীয়ম হরিদাস পাল, এ সুযোগ পাবেন না আর, দেখে যান নিজের চোখে... (হরিদাস পাল কী?)
  • 'বাবু'জনে দেহ জ্ঞান

    Zarifah Zahan
    বিভাগ : ব্লগ | ১৯ ডিসেম্বর ২০১৯ | ৫৭ বার পঠিত
  • পরশু প্রায় কিলোমিটার পঁচিশেক পেরিয়ে যখন জলঙ্গী পৌঁছাই, রাস্তায় বার তিনেক আটকে থেকেছি। বেলা বাড়ার সাথে সাথে কুশপুতুল দাহন আর প্ল্যাকার্ড হাতে মৌন মিছিলের প্রতি পূর্ণ সমর্থন ক্রমশ বিপরীতমুখী হয়েছে রাস্তায় গাড়ি আটকে ইঁট ছোঁড়াছুঁড়ির ঘটনায়।
    অথচ আমি জানি, সাধারণ মানুষকে হ্যারাস করে 'কাটার বাচ্চা আর মোল্লার দল হিংসা ছড়াচ্ছে' বলে বেড়ানো দু'মুখো কালসাপের ভুবনজোড়া ফাঁদে পা না দেবার মতন সাধারণ বোধবুদ্ধি আপামর 'আন্দোলনকারীর' নেই, সেটা হতে পারে না। তবু সেটাই হয়েছে... হচ্ছে। কারণ 'চতুরের ছলের অভাব হয়না'। আমরা-তোরা করা বাবুসমাজের প্রত্যেকে তুমুল 'স্টোন্চ/আরডেন্ট বিজেপিবিরোধী' হওয়া সত্ত্বেও সংবিধানের আদর্শকে কাঁচকলাটি দেখিয়ে শুধুমাত্র একটি সম্প্রদায়ের নাম কেন বিল থেকে বাদ প্রশ্নের প্রেক্ষিতে তেনাদের মুখে কুলুপটি থাকে, অথচ ফেজ-দাড়িতে 'সন্ত্রাস চলছে' শিরোনামে ফেসবুকীয় বিপ্লবের নামে ঘেন্নার প্রকাশ্য সুড়সুড়ি দিতে তেনারা সিদ্ধহস্ত। ওই একই কাজকম্মো আবার ফেজ-দাড়িহীন মানুষের সমাগমে হলে তুরীয় 'বিপ্লব' ধ্বনিতে দেওয়াল কেঁপে যায় কিন্তু যদি একটিও ফেজ চোখে পড়েছে, সাধু সাবধান!!! বাবুজীবন কিন্তু রাতারাতি সেকুলার থেকে সাম্প্রদায়িকতার পক্ষে হয়ে যাবেন.... স্বয়ং 'রাজা'ই যে ভাষণে বলিয়াছেন, 'পোশাক দিয়ে যায় চেনা'।

    কোথাও কোথাও গাড়ি টাড়ি পুড়ে যাওয়ার পর জানা যায়, ভোটকালীন গোষ্ঠীদ্বন্দ্ব এই হুজুগে উস্কানিতে সুযোগের সদ্ব্যবহার করে নিয়েছে দূরদূরান্ত থেকে আসা বহু মানুষজনকে ফ্রন্ট ফেসে পাঠিয়ে। আপনার তবু সেক্যুলারিজমের চম্মা পরে তবু ওদিকে পা মাড়াতে বয়েই গেছে। বরং সোল্লাসে বলুন, মাথামোটা ছাগলের দল তো এমনি এমনি বলা হয়না, জাতটাই এমন। আপনি ভবোদয় মহাখুশ। আন্দোলনের নামে সারাজীবন আতঙ্কে-সংকটে চলা এবং শুরুতেই এমন বিক্ষুব্ধ, দিশাহীন আদতে নিজেদের পায়ে নিজেরা কুড়ুল মারার মতন বেহেড মাতলামি আর যাই হোক প্রতিটা জায়গায় হওয়া যে অসম্ভব সেই ডিটেইল্ড অ্যানালিসিসে ভারি বয়েই গেছে। কারণ...আপনার ভেতরে সযত্নে লালিত ওই 'মোল্লা'শ্রেণীর প্রতি বরাদ্দ ঘেন্না। মোল্লাগণ চুপটি থাকিবে, ঘানিটি টানিবে, বাবুমশায়দের করুণাকে দাক্ষিণ্য ভাবিয়া উদ্বাহু নেত্য করিবে, কষিয়া থাপ্পড়টি খাইয়াও সহাস্য বদনে হজম করিবে...ইহাই নিয়ম। মোল্লাশ্রেণীর কতক ন্যাজবিশিষ্ট প্রাণী (সবাই ইমাম রাশিদি নন)দের জন্য ভাতা (যেমন বাবু সমাজের প্রতিনিধি স্রেফ পুরোহিতই কিনা) এবং রাজনৈতিক কুত্তা থোড়ি গুন্ডাদের ওপর প্রশ্রয়হস্ত দেখিয়া মোল্লা'তোষণ' এ দেশ ধ্বসে গেল রে কুম্ভীরাশ্রুকে যদি দেশদ্রোহিতার অজুহাতে ব্যবহার নাই করতে জানলেন তবে আপনি কেমন শাইনিং ইন্ডিয়ার নাগরিক !

    আপনি জানেন 'প্রান্তিক' শব্দটার কথা, জানেন মুসলিমদের শিক্ষিতের হার। প্রকৃত মুসলিম স্বার্থ নিয়ে কোন সরকার আজ পর্যন্ত কোন কাজ করেছে কিনা, কেনই বা বছরের পর বছর শুধুমাত্র একটা ধর্মীয় সম্প্রদায় ভোটব্যাঙ্ক হিসেবে ব্যবহৃত হয়েও আখের গুছিয়ে নিজেদের দিকে চিরকালীন বরাদ্দ একদলা থুতুর যোগ্য জবাব দেবার মতন জায়গায় পৌঁছায়নি তাও খুব ভাল করে জানেন আপনি। আপনি কিন্তু কখনও প্রশ্ন তোলেননি সরকারের দিকে, সহ নাগরিক হিসেবে নিজের দিকেও। আর দায়িত্ব মাই ফুট, আপনি তো 'আরবি' নাম শুনলেই ভুরু কুঁচকে ভুল বানানে মহরত খোলেন ন্যাকা-বোকা প্রশ্নের 'রোজ বিরিয়ানি খায় কিনা/গরুর প্রসঙ্গটা সরাসরি করতে আঁতে লাগলে ইনিয়ে বিনিয়ে তাই টানা/বোরখা-ফেজ পরা/আর ঈদ( রোজার ঈদ) ছাড়া আর কিছু 'ওদের মোচ্ছব'কে শুনলেই হোলসেল ঈদ বলা' (এটুকু জেনেই তথাকথিত শিক্ষিত, স্কুল-কলেজের চৌহদ্দি পেরোনো মোল্লাদের উদ্ধার করে দেন কিনা)র নাটক দিয়ে। যুগের পর যুগ পাশাপাশি বাস করেও তাদের সম্পর্কে, তাদের জীবন সম্পর্কে তিন-চারটে বেসিক তথ্যই জানেন না (কারণ জানার প্রয়োজন মনে করেন না) তো আর এত উদারতা। আর 'মোল্লা'দের মোটা মাথা তো জানেনই, এই এক গতে বাঁধা নাটকে বছরের পর বছর বিনাতর্কে অংশগ্রহণ করতে থাকে গদগদ হয়ে...সেযুগের বাপেদের জমানায় আলাদা থালায় খাবার দিয়ে পত্রপাঠ বিদেয় করার পর গঙ্গাজলের শুদ্ধিকরণ তো আর এযাবৎকাল এ জমানায় হয়না কিনা..অতএব আহা, এই সই। লেখাপড়া জানা 'মোল্লাদের' প্রতি যখন আপনার এই মানসিকতা তখন চাষী, গরীব-গুর্বো, নিরক্ষর 'মোল্লাদের' দেখে কতটা নাক কুঁচকোন সে নাহয় আর বুক বাজিয়ে নাই বা বললেন...দিনের শেষে শুধু জাত নয়, 'ক্লাসও ম্যাটার্স'।

    শুধুমাত্র মুসলিম নাম হওয়ার অপরাধে-গরু খাবার অপরাধে-দাড়ি থাকার অপরাধে-ফেজ পরার অপরাধে ঠিক কতগুলো গণহত্যা হয়েছে, আপনি খোঁজ রাখেন। প্রতিটা অপরাধে কীভাবে অপরাধীর ধর্ম খুঁজে খুঁজে 'প্রতিবাদ' হয়, তাও জানেন। কিন্তু মুখে রাটি কাড়েননি...কারণ আপনার ঠিক প্রতিবেশী যে 'মুসলিম' ছেলেটি আপনার সহপাঠী ছিল আজীবন, তার বাড়ি ঈদের নেমন্তন্ন সেরে (ভন্ড সেক্যুলারিজমের অ্যাকমেয় পৌঁছানোর প্রমাণস্বরূপ গোমাংস-ভক্ষণের কয়েক পিস ছবি আপ্লোডালে সোনায় সোহাগা) এহেন হঠকারিতার খবরে রাজনৈতিক ম্যানিপুলেশনের বদলে ধর্মের রং খোঁজেন আপনি। জমে থাকা ঘেন্নার উচ্ছসিত প্রশংসা করেন হাততালি দিতে দিতে, কারণ আপনি ঠিক সেটাই চান। আর চান বলেই না একটা তীব্র সাম্প্রদায়িক সরকারের গদি শক্ত করেছেন।
    মুখোশ বহুদিন পরে থাকলে আদতে এক অদ্ভুত অস্বস্তি হয়, প্রতি রাতে সেটা খুলে ঘুমোতে গেলেও মুখ-মুখোশের টানাপোড়েন বাড়তেই থাকে। তার চেয়ে মুখোশ ছুঁড়ে ফেলুন, এই যেমনটি করছেন..।

    আর হ্যাঁ, এতটুকু পড়েই 'মোল্লার মেয়ের ফাটছে, দেখ কেমন লাগে'র তুরীয় আহ্লাদে বাজি পোড়ানোর আগেই স্পষ্ট জানিয়ে রাখি, কোনরকম হঠকারিতা/ উস্কানির পক্ষে সওয়াল করতে কথাগুলো লেখা হয়নি কারণ যেকোন ক্ষয়ক্ষতির বিপক্ষে এই বান্দা। জায়গা-ধর্ম-প্রসঙ্গ নির্বিশেষে অন্যায়কে অন্যায় বলতে গেলে আর যাই হোক, আপনার মতন দ্বিচারিতার সংও সাজার দরকার মনে করিনি। সহমর্মিতার ভান করে যে এদ্দিন চলতেন, কেবল সেই মানসিকতাকে ধিক্কার দিতেই এতগুলো কথার অবতারণা।
    বছরের পর বছর দেশে থেকে শুধুমাত্র বাপ-ঠাকুরদার জন্মসূত্রে পাওয়া ধর্মীয় পরিচয়ের কারণে যখন রাতারাতি ভিটেছাড়ার আশঙ্কা তৈরি হয় একজন মানুষের (আজ্ঞে হ্যাঁ, প্রথম জানছেন হয়তো, তবু জানিয়ে রাখি মোল্লারাও মানুষ) তার সেটাও চুপ করে মেনে নেবার নিধান, আপনি, হ্যাঁ গেল গেল রব তোলা প্রতিটা প্রতিবাদ কল্পনায় নিষ্ঠাভরে স্টেপ বাই স্টেপ মৌনভাবে সেরে ফেলা বাবু পাব্লিক আপনি, দেবার কে হে? আপনার যেমন দু নৌকায় পা দিয়ে চলবার পুরো অধিকার আছে, 'শান্তির বাচ্চাদের'ও যুঝে ও বুঝে নেবার পুরো অধিকার আছে। আপনি বরং মাঝখান থেকে ভুল করে আবার এসব খবরের নামে গপ্পো পরিবেশনের সময় বর্ডারে কাক মারার মতন মানুষ মেরে না ফেলেন, সে খেয়াল রাখুন।

    বি.দ্র : 'বুমেরাং' শব্দটি অভিধানে আছে। যদিও তার সাথে উপরিউক্ত বাবুসমাজের যোগাযোগ নিতান্ত কাকতলীয়।
  • বিভাগ : ব্লগ | ১৯ ডিসেম্বর ২০১৯ | ৫৭ বার পঠিত
আরও পড়ুন
তোষণ - Zarifah Zahan
আরও পড়ুন
ফড়িং - Zarifah Zahan
  • আমার গুরুবন্ধুদের জানানকরোনা ভাইরাস

  • পাতা : 1
  • বিপ্লব রহমান | 237812.69.453412.236 (*) | ২৬ ডিসেম্বর ২০১৯ ০৭:২১50903
  • "লেখাপড়া জানা 'মোল্লাদের' প্রতি যখন আপনার এই মানসিকতা তখন চাষী, গরীব-গুর্বো, নিরক্ষর 'মোল্লাদের' দেখে কতটা নাক কুঁচকোন সে নাহয় আর বুক বাজিয়ে নাই বা বললেন...দিনের শেষে শুধু জাত নয়, 'ক্লাসও ম্যাটার্স'।"

    স্বীকার করি এপারের ভোট ব্যাংক হিন্দুদের প্রতিও অনেক শিক্ষিত মুসলিমও একই গোপন হিংসা পোষেন।

    এ যেন "তুমি অধম বলিয়া আমি আরো অধম হইবো না কেন" প্রতিযোগিতায় নেমেছে দুই দেশ। আর এরই রাষ্ট্রীয় সমিকরণে নেমেছে মোদি-শাহ।

    এইসব জাত-পাত, সাম্প্রদায়িকতা, বিভাজন, এনার্সি মানি না! ভারত জুড়ে সহিংস বিক্ষোভে রক্ত ঝরছে, ইতিহাস বিনির্মাণ হবেই!
  • করোনা ভাইরাস

  • পাতা : 1
  • গুরুর মোবাইল অ্যাপ চান? খুব সহজ, অ্যাপ ডাউনলোড/ইনস্টল কিস্যু করার দরকার নেই । ফোনের ব্রাউজারে সাইট খুলুন, Add to Home Screen করুন, ইন্সট্রাকশন ফলো করুন, অ্যাপ-এর আইকন তৈরী হবে । খেয়াল রাখবেন, গুরুর মোবাইল অ্যাপ ব্যবহার করতে হলে গুরুতে লগইন করা বাঞ্ছনীয়।
  • কি, কেন, ইত্যাদি
  • বাজার অর্থনীতির ধরাবাঁধা খাদ্য-খাদক সম্পর্কের বাইরে বেরিয়ে এসে এমন এক আস্তানা বানাব আমরা, যেখানে ক্রমশ: মুছে যাবে লেখক ও পাঠকের বিস্তীর্ণ ব্যবধান। পাঠকই লেখক হবে, মিডিয়ার জগতে থাকবেনা কোন ব্যকরণশিক্ষক, ক্লাসরুমে থাকবেনা মিডিয়ার মাস্টারমশাইয়ের জন্য কোন বিশেষ প্ল্যাটফর্ম। এসব আদৌ হবে কিনা, গুরুচণ্ডালি টিকবে কিনা, সে পরের কথা, কিন্তু দু পা ফেলে দেখতে দোষ কী? ... আরও ...
  • আমাদের কথা
  • আপনি কি কম্পিউটার স্যাভি? সারাদিন মেশিনের সামনে বসে থেকে আপনার ঘাড়ে পিঠে কি স্পন্ডেলাইটিস আর চোখে পুরু অ্যান্টিগ্লেয়ার হাইপাওয়ার চশমা? এন্টার মেরে মেরে ডান হাতের কড়ি আঙুলে কি কড়া পড়ে গেছে? আপনি কি অন্তর্জালের গোলকধাঁধায় পথ হারাইয়াছেন? সাইট থেকে সাইটান্তরে বাঁদরলাফ দিয়ে দিয়ে আপনি কি ক্লান্ত? বিরাট অঙ্কের টেলিফোন বিল কি জীবন থেকে সব সুখ কেড়ে নিচ্ছে? আপনার দুশ্‌চিন্তার দিন শেষ হল। ... আরও ...
  • বুলবুলভাজা
  • এ হল ক্ষমতাহীনের মিডিয়া। গাঁয়ে মানেনা আপনি মোড়ল যখন নিজের ঢাক নিজে পেটায়, তখন তাকেই বলে হরিদাস পালের বুলবুলভাজা। পড়তে থাকুন রোজরোজ। দু-পয়সা দিতে পারেন আপনিও, কারণ ক্ষমতাহীন মানেই অক্ষম নয়। বুলবুলভাজায় বাছাই করা সম্পাদিত লেখা প্রকাশিত হয়। এখানে লেখা দিতে হলে লেখাটি ইমেইল করুন, বা, গুরুচন্ডা৯ ব্লগ (হরিদাস পাল) বা অন্য কোথাও লেখা থাকলে সেই ওয়েব ঠিকানা পাঠান (ইমেইল ঠিকানা পাতার নীচে আছে), অনুমোদিত এবং সম্পাদিত হলে লেখা এখানে প্রকাশিত হবে। ... আরও ...
  • হরিদাস পালেরা
  • এটি একটি খোলা পাতা, যাকে আমরা ব্লগ বলে থাকি। গুরুচন্ডালির সম্পাদকমন্ডলীর হস্তক্ষেপ ছাড়াই, স্বীকৃত ব্যবহারকারীরা এখানে নিজের লেখা লিখতে পারেন। সেটি গুরুচন্ডালি সাইটে দেখা যাবে। খুলে ফেলুন আপনার খেরোর খাতা, লিখতে থাকুন, বানান নিজের বাংলা ব্লগ, হয়ে উঠুন একমেবাদ্বিতীয়ম হরিদাস পাল, এ সুযোগ পাবেন না আর, দেখে যান নিজের চোখে...... আরও ...
  • টইপত্তর
  • নতুন কোনো বই পড়ছেন? সদ্য দেখা কোনো সিনেমা নিয়ে আলোচনার জায়গা খুঁজছেন? নতুন কোনো অ্যালবাম কানে লেগে আছে এখনও? সবাইকে জানান। এখনই। ভালো লাগলে হাত খুলে প্রশংসা করুন। খারাপ লাগলে চুটিয়ে গাল দিন। জ্ঞানের কথা বলার হলে গুরুগম্ভীর প্রবন্ধ ফাঁদুন। হাসুন কাঁদুন তক্কো করুন। স্রেফ এই কারণেই এই সাইটে আছে আমাদের বিভাগ টইপত্তর। ... আরও ...
  • ভাটিয়া৯
  • যে যা খুশি লিখবেন৷ লিখবেন এবং পোস্ট করবেন৷ তৎক্ষণাৎ তা উঠে যাবে এই পাতায়৷ এখানে এডিটিং এর রক্তচক্ষু নেই, সেন্সরশিপের ঝামেলা নেই৷ এখানে কোনো ভান নেই, সাজিয়ে গুছিয়ে লেখা তৈরি করার কোনো ঝকমারি নেই৷ সাজানো বাগান নয়, আসুন তৈরি করি ফুল ফল ও বুনো আগাছায় ভরে থাকা এক নিজস্ব চারণভূমি৷ আসুন, গড়ে তুলি এক আড়ালহীন কমিউনিটি ... আরও ...
যোগাযোগ করুন, লেখা পাঠান এই ঠিকানায় : [email protected]
মে ১৩, ২০১৪ থেকে সাইটটি বার পঠিত