ভাটিয়ালি | টইপত্তর | বুলবুলভাজা | হরিদাস পাল | খেরোর খাতা | বই
  • খেরোর খাতা

  • সূর্যমুখীর এরোপ্লেন

    সৈকত বন্দ্যোপাধ্যায় লেখকের গ্রাহক হোন
    ০৭ সেপ্টেম্বর ২০২১ | ৭৭৮ বার পঠিত | রেটিং ৫ (১ জন)
  • ইন্দ্রাণীদি ফেসবুকে নেই। অর্থাৎ, এই নশ্বর পৃথিবীতেই নেই। যেখানে মানুষে-মানুষে যোগাযোগের পোশাকি নাম নেট-ওয়ার্কিং। যেখানে আলোয় ভেসে থাকার জন্য সর্বদা আকুলি-বিকুলির নাম আলোকপ্রাপ্তি। ইন্দ্রাণীদি এসবের বাইরে। তাঁর সাধনা নৈঃশব্দের। বাক্য নিক্তি মেপে। আখ্যান ছেনি হাতুড়ি দিয়ে কোঁদা। সেও এক ম্যাজিক, তবে অন্ধকারের। যেখানে পৃথিবীর কিমাকার ডায়নামোর পরে মহীনের ঘোড়ারা ঘাস খেতে আসে, এ সেসব এলাকার কাহিনী। হুড়োহুড়ি, গুঁতোগুঁতিতে ইন্দ্রাণীদি নেই। তার বাইরের যে অন্ধকার ইন্দ্রাণীদির ম্যাজিক সেই অঞ্চলের। 
     
    ইন্দ্রাণীদির প্রথম গল্পের বইয়ের নাম ছিল 'পাড়াতুতো চাঁদ'। যা দেখিয়ে দিয়েছে, নিঃস্তব্ধতারও কিছু অনুসারী আছেন। হয়তো সংখ্যায় বেশিই আছেন, দেখা যায়না, কারণ তাঁরাও নিঃস্তব্ধ। "আমি নিজেকে পড়ুয়া বলে মনে করি, কিন্তু ইন্দ্রাণীর খোঁজ রাখতাম না। যেসব লেখকের কথা ফেসবুক- স্যোসাল মিডিয়ায় কথা শুনি, তার মধ্যে ইন্দ্রাণীর নামই দেখি না। যা দেখি, সেই সব লেখকের হাজার হাজার ফলোয়ার, পড়তে গিয়ে বিপন্ন বোধ করি। সোস্যাল মিডিয়া কি দলবেঁধে ক্ষুদ্রকে বৃহতে পরিণত করে তুলতে চাইছে প্রচারের মাধ্যমে? অথচ ইন্দ্রাণী সামাজিক মাধ্যমেই তাঁর গল্প লিখেছেন একাকী প্রায়।  নিজের ফলোয়ার তৈরি করে লিখতে আসেননি। আমি সেই বই 'পাড়াতুতো চাঁদ' পড়ে তাঁর গল্পের অনুরাগী হয়ে পড়েছি। একজন গল্পকার তাঁর মায়াময় ভাষা, আশ্চর্য কাহিনি বয়ন নিয়ে কতদূর উড়ান দিতে পারেন, তা ইন্দ্রাণীর গল্প পড়লে আন্দাজ করা যায়।" -- লিখেছেন অমর মিত্র।
     
    ইন্দ্রাণীদির পরের বইয়ের নাম "সূর্যমুখীর এরোপ্লেন"। আসছে শীঘ্রই। একাকী অভিযাত্রীর নৈঃশব্দের উড়ান তো একটুতে শেষ হবার নয়। নিঃস্তব্ধতার অনুরাগী যাঁরা আছেন, তাঁরাও এই যাত্রার সঙ্গী। তাঁদের জন্যই এই লেখা। যাঁরা পড়বেন, তাঁরা তৈরি থাকুন, কারণ এ বই পড়ারও প্রস্তুতি লাগে। আর যাঁরা একদম সঙ্গে সঙ্গেই থাকতে চান, তাঁরা বইটির আংশিক ব্যয়ভার বহন করে দত্তকও নিতে পারেন। যোগাযোগের ঠিকানা, যথারীতিঃ [email protected] । লিখতে পারেন এই লেখার নিচেও।  
  • মতামত দিন
  • বিষয়বস্তু*:
  • বিপ্লব রহমান | ০৭ সেপ্টেম্বর ২০২১ ০৮:১৪497782
  • দারুণ প্রচ্ছদ! গুরুচন্ডালি র আরেকটি গুরুত্বপূর্ণ সংযোজন। 
    অনেক শুভ কামনা 
  • | ১৩ মার্চ ২০২২ ২১:৫০504872
  • আমি মূলত পিংপং আর অরফ্যানগঞ্জ দুই মলাটে চাইছিলাম। এই দুটো গল্পের প্রতিই বিশেষ পক্ষপাত আছে আমার। সে দুটো এ বইতে আছে। কিন্তু আরো কয়েকটা গল্প দেওয়া যেত না বইটায়? বড্ড পাতলা বড্ড পুঁচকে। 
  • ইন্দ্রাণী | ১৪ মার্চ ২০২২ ০৩:১৯504874
  • ছোটাইয়ের বই তো ...smiley

    আসলে , পাড়াতুতো তেও যেটা করেছিলাম, সূর্যমুখীর ক্ষেত্রেও সেইরকম একটা নিহিত থীম ধরে গল্প সাজিয়েছি। যদিও সেটা খুব প্রকট নয় পাঠকের কাছে।
    তো, সেই থীম অনুযায়ী পাড়াতুতোয় দশটি গল্পে থেমে গিয়েছিলাম, সূর্যমুখীতে বারোয়। তারপর কোভিডের কারণে পাণ্ডুলিপি পড়েছিল প্রায় এক বছরের বেশিই। সেই সময়ে যে কটি গল্প লিখেছি, তার মধ্যে থেকে হয়ত দুই তিনটি গল্প সূর্যমুখীর কেন্দ্রীয় বিষয়ে মানিয়ে যেত। কিন্তু বই য়ের কাজ অনেকটাই এগিয়ে গেছে তখন- আমি এই নিয়ে আর উদ্যোগ নিই নি।
    এই আর কী।
  • | ১৪ মার্চ ২০২২ ১০:১১504877
  • আচ্ছা সৈকতের লেখার একটা জায়গায় চোখ আটকালো। গুরুতে লেখালিখি করে এমন অনেকেই ত ফলোয়ার তৈরী করে লিখতে আসে নি।  খুব সামান্য দুই একজন ছাড়া বেশিরভাগই ফলোয়ার তৈরীর কোন চেষ্টাও করে না। এটা শুধু ইন্দ্রাণী নয়, সৈকত। 
  • Abhyu | 47.39.151.164 | ১৪ মার্চ ২০২২ ১২:২০504878
  • পড়ব। শুভ কামনা রইল।
  • মতামত দিন
  • বিষয়বস্তু*:
  • কি, কেন, ইত্যাদি
  • বাজার অর্থনীতির ধরাবাঁধা খাদ্য-খাদক সম্পর্কের বাইরে বেরিয়ে এসে এমন এক আস্তানা বানাব আমরা, যেখানে ক্রমশ: মুছে যাবে লেখক ও পাঠকের বিস্তীর্ণ ব্যবধান। পাঠকই লেখক হবে, মিডিয়ার জগতে থাকবেনা কোন ব্যকরণশিক্ষক, ক্লাসরুমে থাকবেনা মিডিয়ার মাস্টারমশাইয়ের জন্য কোন বিশেষ প্ল্যাটফর্ম। এসব আদৌ হবে কিনা, গুরুচণ্ডালি টিকবে কিনা, সে পরের কথা, কিন্তু দু পা ফেলে দেখতে দোষ কী? ... আরও ...
  • আমাদের কথা
  • আপনি কি কম্পিউটার স্যাভি? সারাদিন মেশিনের সামনে বসে থেকে আপনার ঘাড়ে পিঠে কি স্পন্ডেলাইটিস আর চোখে পুরু অ্যান্টিগ্লেয়ার হাইপাওয়ার চশমা? এন্টার মেরে মেরে ডান হাতের কড়ি আঙুলে কি কড়া পড়ে গেছে? আপনি কি অন্তর্জালের গোলকধাঁধায় পথ হারাইয়াছেন? সাইট থেকে সাইটান্তরে বাঁদরলাফ দিয়ে দিয়ে আপনি কি ক্লান্ত? বিরাট অঙ্কের টেলিফোন বিল কি জীবন থেকে সব সুখ কেড়ে নিচ্ছে? আপনার দুশ্‌চিন্তার দিন শেষ হল। ... আরও ...
  • বুলবুলভাজা
  • এ হল ক্ষমতাহীনের মিডিয়া। গাঁয়ে মানেনা আপনি মোড়ল যখন নিজের ঢাক নিজে পেটায়, তখন তাকেই বলে হরিদাস পালের বুলবুলভাজা। পড়তে থাকুন রোজরোজ। দু-পয়সা দিতে পারেন আপনিও, কারণ ক্ষমতাহীন মানেই অক্ষম নয়। বুলবুলভাজায় বাছাই করা সম্পাদিত লেখা প্রকাশিত হয়। এখানে লেখা দিতে হলে লেখাটি ইমেইল করুন, বা, গুরুচন্ডা৯ ব্লগ (হরিদাস পাল) বা অন্য কোথাও লেখা থাকলে সেই ওয়েব ঠিকানা পাঠান (ইমেইল ঠিকানা পাতার নীচে আছে), অনুমোদিত এবং সম্পাদিত হলে লেখা এখানে প্রকাশিত হবে। ... আরও ...
  • হরিদাস পালেরা
  • এটি একটি খোলা পাতা, যাকে আমরা ব্লগ বলে থাকি। গুরুচন্ডালির সম্পাদকমন্ডলীর হস্তক্ষেপ ছাড়াই, স্বীকৃত ব্যবহারকারীরা এখানে নিজের লেখা লিখতে পারেন। সেটি গুরুচন্ডালি সাইটে দেখা যাবে। খুলে ফেলুন আপনার নিজের বাংলা ব্লগ, হয়ে উঠুন একমেবাদ্বিতীয়ম হরিদাস পাল, এ সুযোগ পাবেন না আর, দেখে যান নিজের চোখে...... আরও ...
  • টইপত্তর
  • নতুন কোনো বই পড়ছেন? সদ্য দেখা কোনো সিনেমা নিয়ে আলোচনার জায়গা খুঁজছেন? নতুন কোনো অ্যালবাম কানে লেগে আছে এখনও? সবাইকে জানান। এখনই। ভালো লাগলে হাত খুলে প্রশংসা করুন। খারাপ লাগলে চুটিয়ে গাল দিন। জ্ঞানের কথা বলার হলে গুরুগম্ভীর প্রবন্ধ ফাঁদুন। হাসুন কাঁদুন তক্কো করুন। স্রেফ এই কারণেই এই সাইটে আছে আমাদের বিভাগ টইপত্তর। ... আরও ...
  • ভাটিয়া৯
  • যে যা খুশি লিখবেন৷ লিখবেন এবং পোস্ট করবেন৷ তৎক্ষণাৎ তা উঠে যাবে এই পাতায়৷ এখানে এডিটিং এর রক্তচক্ষু নেই, সেন্সরশিপের ঝামেলা নেই৷ এখানে কোনো ভান নেই, সাজিয়ে গুছিয়ে লেখা তৈরি করার কোনো ঝকমারি নেই৷ সাজানো বাগান নয়, আসুন তৈরি করি ফুল ফল ও বুনো আগাছায় ভরে থাকা এক নিজস্ব চারণভূমি৷ আসুন, গড়ে তুলি এক আড়ালহীন কমিউনিটি ... আরও ...
গুরুচণ্ডা৯-র সম্পাদিত বিভাগের যে কোনো লেখা অথবা লেখার অংশবিশেষ অন্যত্র প্রকাশ করার আগে গুরুচণ্ডা৯-র লিখিত অনুমতি নেওয়া আবশ্যক। অসম্পাদিত বিভাগের লেখা প্রকাশের সময় গুরুতে প্রকাশের উল্লেখ আমরা পারস্পরিক সৌজন্যের প্রকাশ হিসেবে অনুরোধ করি। যোগাযোগ করুন, লেখা পাঠান এই ঠিকানায় : [email protected]


মে ১৩, ২০১৪ থেকে সাইটটি বার পঠিত
পড়েই ক্ষান্ত দেবেন না। না ঘাবড়ে মতামত দিন