• হরিদাস পাল
  • খুলে ফেলুন আপনার নিজের বাংলা ব্লগ, হয়ে উঠুন একমেবাদ্বিতীয়ম হরিদাস পাল, এ সুযোগ পাবেন না আর, দেখে যান নিজের চোখে... (হরিদাস পাল কী?)
  • নামমাহাত্ম্য

    Sangrami Lahiri ফলো করুন
    কূটকচালি | ১০ জুলাই ২০২০ | ৬৬৮ বার পঠিত

  • সপ্তাহান্তে সাগরপারে মাকে ফোন করা আমার নিত্যকর্ম - খুব একটা এদিক-ওদিক হয় না | ফোন ঠিক নয় অবশ্য, ভিডিও গল্প | মা এমনিতে একাই একশো, কিন্তু নিম্নগামী স্নেহের কাছে একান্তই অসহায় | সপ্তাহান্তে একবার তাঁর অপদার্থ কন্যাটির খবর না পেলে তিনি উতলা হন ! কন্যাটির যে মেঘে মেঘে বেলা হয়েছে মা বোধহয় মনে রাখেন না.| নাতিটিই তো বিশ্ববিদ্যালয়ের শেষ ধাপে।
    নাতিকে তিনি সবসময় পাকড়াও করতে পারেন না | সারাদিনই বাড়ির বাইরে | লকডাউনে নাতি এখন সাময়িক ভাবে ডেরায় বন্দী, বেরোবার উপায় নেই । তাই মাঝে মাঝেই তিনি দিম্মা কে একবার হ্যালো করে যান | আসলের থেকে সুদ মিষ্টি | অতএব নাতিকে পেলে দিম্মা মেয়ের কথা ভুলে যান | এখানে বলে রাখি দিম্মা আর নাতি .দুজনেই জ্ঞানসমুদ্রে সাঁতার কাটেন | বিভিন্ন বিষয়ে আলোচনা চালাতে তুখোড়। কাজেই তাঁদের কথোপকথন বেশ উচ্চমার্গের হয় | এক কাপ চা হাতে নিয়ে আমি পাশে বসে শুনি | মাঝে মাঝে একটু-আধটু ফোড়ন কাটার চেষ্টা করি বটে, কিন্তু হালে পানি পাই না।
    এই সপ্তাহে মার্ সাথে কথা বলছি - এমন সময় ছেলে কি জানি কি খেয়ালে তার মধ্যে ঢুকে মধ্যমণি হয়ে বসলেন | চলছে নানারঙের কথাবার্তা | দিম্মা কলকাতা-বাসিনী হলে কি হবে, পাশ্চাত্যের দুটি প্রধান মহাদেশ ভালো করেই ঘুরে দেখেছেন | ট্রান্সআটলান্টিক কানেকশন - উত্তর আমেরিকা ও ইউরোপের তুলনামূলক আলোচনা দিম্মা-নাতি দুজনেরই প্রিয় বিষয় | কথাপ্রসঙ্গে সেদিন দিম্মা বললেন সানফ্রান্সিসকো শহরের ট্রামের সঙ্গে তিনি মিলান ও আমস্টারডাম শহরের ট্রামগাড়ির মিল পেয়েছেন | একই সঙ্গে তিনি কলকাতা শহরের জরাজীর্ণ ট্রাম পরিষেবার শ্রাদ্ধ করতেও ছাড়েন নি |
    সানফ্রান্সিসকো নামটি শুনেই নাতির মাথায় বিদ্যুৎচমক | দিম্মাকে শুধোলেন - এ শহরের নামটা খেয়াল করেছো কি ?
    দিম্মা শেক্সপিয়ারকে কোট করে সবে বলতে যাচ্ছিলেন - নামে কিই বা আসে যায় | তার আগেই নাতি বললেন - না না, নামে সত্যিই অনেক কিছু আসে যায় | প্রত্যেক নামের একটা মানে আছে, একটা ইতিহাস আছে |
    দিম্মা এবার উৎসাহিত হলেন - কিরকম ?
    নাতি বোঝালেন - সান হচ্ছে স্প্যানিশ কথা, ইংরেজি করলে হয় সেন্ট | ক্যালিফোর্নিয়া আর আমেরিকার দক্ষিণাঞ্চল একসময় স্প্যানিশ কলোনি ছিল | তাই শহরের নামে "সান"দের ছড়াছড়ি |
    বুদ্ধিমতী দিম্মা চট করে ধরে ফেললেন - তাহলে সানফ্রান্সিসকো মানে সেন্ট ফ্রান্সিসের নামে শহর ?
    নাতি খুশী হলেন - ঠিক ধরেছো | ওই একই সূত্র ধরে এগোলে পাবে সেন্ট অ্যান্টোনির নামে সান আন্তোনিও যা পরে ইংরেজের জিভে পড়ে হয়েছে সান অ্যান্টোনিও | সান হোসে আর কিছুই নয়, সাক্ষাৎ সেন্ট জোসেফের শহর | সান কার্লোস তার নাম পেয়েছে সেন্ট চার্লসের থেকে | আর সান দিয়েগো হচ্ছে সেন্ট দিদাকুস (Saint Didacus) এর স্প্যানিশ অবতার |
    দিম্মা খেয়াল করেছেন যে ইংরেজী নামগুলি স্প্যানিশে সামান্য বদলে যাচ্ছে | সে কথা বলতেই নাতি বললেন - নিশ্চয় ! এ সবই আদতে মূল ল্যাটিন ভাষার নাম | ল্যাটিন পরিবারভুক্ত ভাষাগুলো তাদের নিজেদের মতো করে একটু অদল বদল করে নিয়েছে | এই যেমন ধরো ইংরেজ চার্লস | তার ল্যাটিন নামটা ছিল ক্যারোলুস |
    আমি পাশ থেকে নাক গলালুম -- ক্যারোলুস লিনিউস ? ওই যে যিনি ট্যাক্সনমি আর বাইনোমিয়াল নোমেনক্লেচার করে গেলেন ?
    কথা শেষ হতে না দিয়ে নাতি বললেন - হ্যাঁ তিনিই | অবিশ্যি তিনি সুইডিশ ছিলেন | তা তিনিই ইংল্যান্ডে চার্লস, ফ্রান্সে শার্ল, জার্মানিতে কার্ল আর পর্তুগিজে কার্লোস |
    দিম্মার উৎসাহ উত্তরোত্তর বাড়ছে | বললেন, আচ্ছা, সেই বাইবেলে পড়া জোসেফ ? বুক অফ জেনেসিসএ জেকবের এগারো নম্বর সন্তান ? সেও তো অনেক পুরোনো নাম, তাই না ?
    নাতি জানালেন - ঠিকই, জোসেফ হলো বিব্লিক্যাল নাম, কিন্তু এ নামের উৎস রোমানদেরও আগে | গ্রীক নাম ইয়োসিফ (Iosef) ধার করেছিল রোমানরা | জোসেফ নাম তুমি মিডল ইস্ট থেকে বেরোনো তিনটে ধর্মের মধ্যেই পাবে | জ্যুইশ বাইবেল - যা কিনা হিব্রুতে লেখা - সেখানে তিনিই হলেন ইয়োসেফ (Yosef) |
    ইয়োসেফ শুনেই দিম্মার বুদ্ধি খুলে গেল | জিজ্ঞাসিলেন - আরবী ভাষার ইউসুফ কি জোসেফেরই মামাতো ভাই ?
    নাতি বললেন - এক্কেবারে ঠিক | আর জোসেফের চাচাতো ভাইয়েরা ছড়িয়ে আছে ল্যাটিন পরিবারের অন্যান্য ভাষাগুলিতে | ইতালিয়ানরা তাকে আদর করে ডাকে জ্যুসেপ্পে (giuseppe), পর্তুগিজ আর স্প্যানিশে সেই হয় হোসে (Jose) | পর্তুগিজ আর স্প্যানিশে "জ" কে "হ" উচ্চারণ করা হয় কিনা, তাই |
    কথার মাঝখানে হঠাৎ বাইরে ঘড়ঘড়ঘড়ঘড়, একটানা উচ্চ ডেসিবেলের আওয়াজে দিম্মা চমকে উঠলেন - ও কিসের শব্দ ?
    নাতি হেসে আশ্বস্ত করলেন - ল্যান্ডস্কেপার জন এসেছে | মোয়ার চালিয়ে ঘাস ছাঁটছে | জানো দিম্মা, আমাদের বাড়ীতে প্লাম্বার থেকে ল্যান্ডস্কেপার - সব্বাই জন | এটাও কিন্তু একটা বহু প্রচলিত নাম |
    দিম্মা বললেন - অবশ্যই | ইউরোপে আমিও হাফ ডজন জনের দেখা পেয়েছি | তা জন নামের অন্য অবতারগুলি কি কি ?
    নাতি জানালেন - এ তো জলবৎ তরলং | ইংরেজ জন হলো ফরাসী জ্যঁ (Jean), চেক যোহান, জার্মান যুহান (Johann), স্প্যানিশ হুয়ান (Juan) আর ইতালিয়ান জোভান্নি |
    দিম্মা ইতালিয়ান অপেরার সমঝদার | সঙ্গে সঙ্গে মনে পড়লো মোজার্টের অপেরার গোবেচারা নায়ক ডন জোভান্নির কথা | চমৎকৃত হয়ে বললেন - তাহলে সে আসলে জন ছাড়া কেউ নয় ?
    নাতি বললেন - সে তো বটেই, তাছাড়াও মনে করো স্ক্যান্ডিনেভিয়ান হান্স - সেই যে হান্স অ্যান্ডারসন রূপকথা লিখে গেলেন - তিনিও কিন্তু আদতে জন |
    দিম্মা জানালেন, আমস্টারডামে তিনি যে জনের বাড়িতে থেকেছিলেন তার পুত্রের নাম ইভান | ইভান হান্স অ্যান্ডারসনের রূপকথা পড়তে বড্ডো ভালোবাসতো |
    নাতি খুবই উত্তেজিত হয়ে বললেন - একবার ভেবে দেখেছো ব্যাপারটা ? রাশান আর পোলিশে জন কিন্তু ইভান হয়ে যায় | তার মানে বাবা আর ছেলের নামের মানে এক ! আর তারা নিজেদের নেমসেকের বই পড়ে !
    দিম্মা বলতে যাচ্ছিলেন - সত্য সেলুকাস..ইত্যাদি |
    নাতি তাঁকে থামিয়ে বললেন - অবাক হবার কিছু নেই, এবম্বিধ নানারূপ তুমি জেমস, জেকব, ম্যাথিউ, মাইকেল - সবকটা বহুপ্রচলিত নামেই পাবে |
    দিম্মা এবার কৌতূহলী হলেন – আচ্ছা, মেয়েদের নামে এমন উদাহরণ আছে ?
    নাতি বললেন - নিশ্চয়ই | যীশু-জননীকে দিয়েই শুরু করো না | যিনি ল্যাটিনে মেরি, তিনিই আরবীতে মরিয়ম বেগম, হিব্রুতে মিরিয়ম, তিনিই ফরাসী মারি - যে মারি আঁতোয়ানেত রুটির বদলে কেক খেতে বলেছিলেন | আবার তিনিই জার্মান, ইতালিয়ান, পর্তুগিজ, স্প্যানিশে মারিয়া |
    দিম্মা এবার নামমাহাত্ম্যে পুরোপুরি বোল্ড | চমৎকৃত হয়ে বললেন - "আভে মারিয়া" - জয় মা মেরি |
  • বিভাগ : কূটকচালি | ১০ জুলাই ২০২০ | ৬৬৮ বার পঠিত
  • আমার গুরুবন্ধুদের জানানকরোনা

  • পাতা : 1
  • AS | 103.56.239.72 | ১০ জুলাই ২০২০ ১৮:০১95064
  • ভালো লাগল
  • Nirmalya Nag | 103.77.137.182 | ১৫ জুলাই ২০২০ ১০:২৭95230
  • কয়েকটা জানা ছিল, কয়েকটা অজানা। বৈঠকি ঢঙে স্বাদু রচনা। ভাল লাগলো।        

  • প্রলয় বসু | 42.110.137.75 | ১৫ জুলাই ২০২০ ১৩:৪২95240
  • দারুণ লাগলো। 

  • উৎপল সেনগুপ্ত | 2601:85:c200:b0:1cb1:33a4:5e81:8d0f | ২৪ জুলাই ২০২০ ০২:৪৩95452
  •  তাহলে হরিদাস পাল আর হরিপদ কেরাণী কেউ কম নয় ! বাঁচা গেলো!!

    বেশ লিখেছ। এ

  • :|: | 174.254.197.20 | ২৪ জুলাই ২০২০ ১১:২৪95458
  • বাই মেরী-ই নাকি আমাদের রকের শপথে মাইরি হয়েছে। লেখাটা এটা দিয়েও শেষ হতে পারত।
  • S.k.pandey | 116.193.129.96 | ২৬ জুলাই ২০২০ ০০:০০95521
  • ভালো

  • সুমিত রায় | 103.135.134.218 | ২৬ জুলাই ২০২০ ০০:৪২95526
  • আব্রাহামিক প্রোফেট "অ্যারন" এর নাম অনুসারে বিভিন্ন জার্মানিক ভাষায় "অ্যারন" নাম রাখা হয়, যার তুর্কি ও আর্বি সংস্করণ হল হারুন, হিব্রু সংস্করণ "আহারন"। ইংরেজিতে অ্যারন ছাড়াও এর আরও কিছু ভার্শন আছে, যেমন অ্যারেন, এরিন। এরিন নামটা আবার মেয়েরাও ব্যবহার করে। 

    আব্রাহামিক নাম ছাড়া একটা ইন্দো-ইউরোপীয় রুটের উদাহরণ দেই এখানে। জার্মানিক "উইলহেম" শব্দটি "উইল" (ইচ্ছা) ও "হেল্ম" (শিরস্ত্রাণ) শব্দের সমন্বয়ে গঠিত। এখন আমরা এই নামের আত্মীয় হিসেবে পাচ্ছি ব্রেটন গুইলেম, ক্রোয়েশিয়ান ভিলিম,ভিলকো, ডেনিশ ভিলাম, ডাচ উইলি, উইল ইত্যাদি, ফ্রেঞ্চ গিয়ম (Guillaume), ইতালিয়ান গুলিয়েলমো (Guglielmo), ম্যাঙ্কস ইলিয়াম, নরওয়েজিয়ান ভিলহেম ইত্যাদি, ইংরেজিতে গিলিয়াম, উইলিয়াম ছাড়াও ডেরিভেটিভ হিসেবে উইলিয়ামসন, উইলসন, বিল, বিলি, লিয়াম, উইলি রয়েছে। 

    একটা জিনিস খেয়াল করেছি, ইন্দো-ইউরোপীয় মেয়েদের নামে শেষে আ-প্রত্যয় খুব সাধারণ। এরফলে বিভিন্ন সেমিটিক নাম, যেগুলো পুরুষবাচক কিন্তু আ দিয়ে শেষ হয়েছে, সেগুলো ইউরোপে অনেক ক্ষেত্রেই মেয়েদের নাম হিসেবে ব্যবহার করা হয়েছে, একটা উদাহরণ হল "ইলাইজা" বা "এলিজা" নামটা। 

    যাই হোক, আব্রাহামিক প্রোফেট বা সেইন্টদের নামই নয়, ইন্দো-ইউরোপীয় দেবদেবীর নাম ধরলে প্রচুর ভেরিয়েশন পাওয়া যাবে। যেমন স্কাই গড Dyḗus বা Dyḗus ph₂tḗr (PIE) থেকে ইন্দো-ইরানীয় *dyaus হয়ে বৈদিক দেবতা দ্যৌস, আবেস্তান দেবতা dyaoš, মাইসিনীয় di-we হয়ে গ্রিক জিউস, ইতালিক *djous হয়ে ল্যাতিন জুপিটার ও জোভ ইত্যাদি। গ্রিক দেবী ইওস, আর ইন্দো-আর্য দেবী ঊষাও তেমনি, বৈদিক অপাং-নপাৎ ও রোমান নেপচুন, বৈদিক উল্কা (অগ্নি), রোমান ভালকানও তেমনি উদাহরণ। শুধু ইন্দো-ইউরোপীয় না, অ্যাফ্রো-এশিয়াটিক রুটের দেবদেবীর নামের বেলাতেও তা প্রযোজ্য। গ্রেকো-রোমান মিথের চরিত্র অ্যাদোনিস, হিব্রু বা কানানীয় দেবতা অ্যাদোনাই, হেলেনাইজড অ্যাস্টার্তে, নর্থওয়েস্ট সেমিটিক অ্যাস্তোরেথ, ইস্ট সেমিটিক ইশতার ইত্যাদি। দেবদেবীদের এই নাম-বৈচিত্র্য প্রাচীন কালের ধর্মগুলোর বিবর্তন ও বিকাশ সম্পর্কেও ধারণা দেয়। 

  • করোনা

  • পাতা : 1
  • কি, কেন, ইত্যাদি
  • বাজার অর্থনীতির ধরাবাঁধা খাদ্য-খাদক সম্পর্কের বাইরে বেরিয়ে এসে এমন এক আস্তানা বানাব আমরা, যেখানে ক্রমশ: মুছে যাবে লেখক ও পাঠকের বিস্তীর্ণ ব্যবধান। পাঠকই লেখক হবে, মিডিয়ার জগতে থাকবেনা কোন ব্যকরণশিক্ষক, ক্লাসরুমে থাকবেনা মিডিয়ার মাস্টারমশাইয়ের জন্য কোন বিশেষ প্ল্যাটফর্ম। এসব আদৌ হবে কিনা, গুরুচণ্ডালি টিকবে কিনা, সে পরের কথা, কিন্তু দু পা ফেলে দেখতে দোষ কী? ... আরও ...
  • আমাদের কথা
  • আপনি কি কম্পিউটার স্যাভি? সারাদিন মেশিনের সামনে বসে থেকে আপনার ঘাড়ে পিঠে কি স্পন্ডেলাইটিস আর চোখে পুরু অ্যান্টিগ্লেয়ার হাইপাওয়ার চশমা? এন্টার মেরে মেরে ডান হাতের কড়ি আঙুলে কি কড়া পড়ে গেছে? আপনি কি অন্তর্জালের গোলকধাঁধায় পথ হারাইয়াছেন? সাইট থেকে সাইটান্তরে বাঁদরলাফ দিয়ে দিয়ে আপনি কি ক্লান্ত? বিরাট অঙ্কের টেলিফোন বিল কি জীবন থেকে সব সুখ কেড়ে নিচ্ছে? আপনার দুশ্‌চিন্তার দিন শেষ হল। ... আরও ...
  • বুলবুলভাজা
  • এ হল ক্ষমতাহীনের মিডিয়া। গাঁয়ে মানেনা আপনি মোড়ল যখন নিজের ঢাক নিজে পেটায়, তখন তাকেই বলে হরিদাস পালের বুলবুলভাজা। পড়তে থাকুন রোজরোজ। দু-পয়সা দিতে পারেন আপনিও, কারণ ক্ষমতাহীন মানেই অক্ষম নয়। বুলবুলভাজায় বাছাই করা সম্পাদিত লেখা প্রকাশিত হয়। এখানে লেখা দিতে হলে লেখাটি ইমেইল করুন, বা, গুরুচন্ডা৯ ব্লগ (হরিদাস পাল) বা অন্য কোথাও লেখা থাকলে সেই ওয়েব ঠিকানা পাঠান (ইমেইল ঠিকানা পাতার নীচে আছে), অনুমোদিত এবং সম্পাদিত হলে লেখা এখানে প্রকাশিত হবে। ... আরও ...
  • হরিদাস পালেরা
  • এটি একটি খোলা পাতা, যাকে আমরা ব্লগ বলে থাকি। গুরুচন্ডালির সম্পাদকমন্ডলীর হস্তক্ষেপ ছাড়াই, স্বীকৃত ব্যবহারকারীরা এখানে নিজের লেখা লিখতে পারেন। সেটি গুরুচন্ডালি সাইটে দেখা যাবে। খুলে ফেলুন আপনার খেরোর খাতা, লিখতে থাকুন, বানান নিজের বাংলা ব্লগ, হয়ে উঠুন একমেবাদ্বিতীয়ম হরিদাস পাল, এ সুযোগ পাবেন না আর, দেখে যান নিজের চোখে...... আরও ...
  • টইপত্তর
  • নতুন কোনো বই পড়ছেন? সদ্য দেখা কোনো সিনেমা নিয়ে আলোচনার জায়গা খুঁজছেন? নতুন কোনো অ্যালবাম কানে লেগে আছে এখনও? সবাইকে জানান। এখনই। ভালো লাগলে হাত খুলে প্রশংসা করুন। খারাপ লাগলে চুটিয়ে গাল দিন। জ্ঞানের কথা বলার হলে গুরুগম্ভীর প্রবন্ধ ফাঁদুন। হাসুন কাঁদুন তক্কো করুন। স্রেফ এই কারণেই এই সাইটে আছে আমাদের বিভাগ টইপত্তর। ... আরও ...
  • ভাটিয়া৯
  • যে যা খুশি লিখবেন৷ লিখবেন এবং পোস্ট করবেন৷ তৎক্ষণাৎ তা উঠে যাবে এই পাতায়৷ এখানে এডিটিং এর রক্তচক্ষু নেই, সেন্সরশিপের ঝামেলা নেই৷ এখানে কোনো ভান নেই, সাজিয়ে গুছিয়ে লেখা তৈরি করার কোনো ঝকমারি নেই৷ সাজানো বাগান নয়, আসুন তৈরি করি ফুল ফল ও বুনো আগাছায় ভরে থাকা এক নিজস্ব চারণভূমি৷ আসুন, গড়ে তুলি এক আড়ালহীন কমিউনিটি ... আরও ...
যোগাযোগ করুন, লেখা পাঠান এই ঠিকানায় : [email protected]
মে ১৩, ২০১৪ থেকে সাইটটি বার পঠিত