• হরিদাস পাল
  • খুলে ফেলুন আপনার খেরোর খাতা, লিখতে থাকুন, বানান নিজের বাংলা ব্লগ, হয়ে উঠুন একমেবাদ্বিতীয়ম হরিদাস পাল, এ সুযোগ পাবেন না আর, দেখে যান নিজের চোখে... (হরিদাস পাল কী?)
  • হাসপাতালই কি হটস্পট? কোমর্বিডিটির কেসগুলি

    Somnath Roy
    বিভাগ : আলোচনা | ২৫ এপ্রিল ২০২০ | ৪৯০ বার পঠিত
  • পশ্চিমবঙ্গ সরকার করোনা মৃত্যুসংখ্যা গোপন করছিলেন এরকম একটা অভিযোগ বিবিধ মহল থেকে শোনা যাচ্ছিল। আমরা যদি বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার গাইডলাইন দেখি, করোনা আক্রান্ত ব্যক্তির মৃত্যু মানেই তাকে করোনায় মৃত্যু ধরা হচ্ছে না। বিশেষতঃ https://www.who.int/classifications/icd/Guidelines_Cause_of_Death_COVID-19.pdf এই ডকুমেন্টটির পৃষ্ঠা ১২-১৩য় কিছু উদাহরণ দেওয়া আছে, যেখানে বোঝানো হচ্ছে অন্য কোনও অসুখ বা দুর্ঘটনাজনিত ট্রমায় মৃত ব্যক্তির প্যাথলজিকাল পরীক্ষায় নবকরোনা পজিটিভ এলেও তাঁকে পূর্বোক্ত কারণেই মৃত ধরতে হবে । অন্য দেশ বা রাজ্যের ক্ষেত্রে এই গাইডলাইন মানা হচ্ছে কি না জানা নেই, তবে এই রাজ্যে মানা হচ্ছে বলে সরকার দাবি করেছেন।

    সুতরাং সংখ্যা কমিয়ে বলা হচ্ছে এই অভিযোগ তাঁরা খণ্ডন করতে পারেন। কিন্তু, সমস্যা হল, করোনা-আক্রান্ত কতজন অন্য রোগে মারা গেছেন, এই সংখ্যাটা বহুদিন সরকার জানাচ্ছিলেন না। তথ্য গোপন থাকলে সেই জায়গা ভরাট করে গুজব। এবং আজকের পরিস্থিতিতে যখন গুজব নির্মাণে পেশাদারি সংস্থাগুলি কাজ করছে, সরকারের অবিমৃশ্যকারিতায় এই গুজব জেঁকে বসেছিল। বিশেষ করে, সংখ্যালঘু সম্প্রদায়ের মধ্যে প্রচুর আক্রান্ত এবং প্রচুর মৃত, এই গুজব ছড়ানোর পটভূমিটি তৈরি হয়ে গিয়েছে।

    কিন্তু, এইসবের বাইরে, আরেকটা গুরুত্বপূর্ণ বিষয় নিয়ে প্রচলিত মাধ্যমে আলোচনা দেখছি না। সরকার করোনাপজিটিভ মৃতের মোট সংখ্যা বের করেছে, তা হল ৫৭। যার মধ্যে ১৮ জন করোনার জন্যে মারা গেছেন এবং ৩৯ জন অন্য অসুখে। অর্থাৎ, আমরা ধরে নিতে পারি ৩৯ জন মুমূর্ষুদশায় করোনা সংক্রমিত হয়েছিলেন, যেহেতু বিশেষজ্ঞদের মতে এই সংক্রমণ না হলেও তাঁদের মৃত্যু হত। এইবার, মুমূর্ষু মানুষ সাধারণতঃ বিদেশযাত্রা করেন না, বাজারযাত্রাও করেন না। অতএব, তাঁদের সংক্রমণ হয় ঘর থেকে নয় হাসপাতাল থেকে। ঘর থেকে কি না বোঝার জন্য পরিবারের সংক্রমণের পরীক্ষা হচ্ছে কী না দেখা দরকার। তেমনি বিকল্প সম্ভাবনা থাকে তাঁরা হাসপাতাল থেকে আক্রান্ত। আমরা জানতে পারছি না সরকার এই সম্ভাবনাগুলি কতটা বিচার করে দেখছেন এবং কী ব্যবস্থা নিচ্ছেন। রাজ্যে মোট করোনা আক্রান্তের প্রায় ৮% এই কোমর্বিড ব্যক্তিসমূহ। মৃত্যুকালে তাঁদের প্রতিরোধক্ষমতা কম হওয়ায় তাঁরা সহজে সংক্রমণের শিকার হচ্ছেন হয় তো, কিন্তু বীজাণুর বাহুল্য ব্যতিরকে এই সংক্রমণ সম্ভব হত না। সরকারি হাসপাতালগুলি অপরিচ্ছন্নতার জন্য ইতিহাসখ্যাত, এই রাজ্যের বেসরকারি স্বাস্থ্যব্যবসার আড়তগুলিও প্রাথমিক স্বাস্থ্যসম্মত পরিচ্ছন্নতার দিক থেকে খুব এগিয়ে নেই, তা এদের শৌচাগারে গেলেই টের পাওয়া যায়। আমরা বাড়িতে রোগির কাছে যেতে যতটুকু স্বাস্থ্যবিধি মানি তার অর্ধেকও সরকারি বেসরকারি হাসপাতালে মানা হয় কী না সন্দেহ। ফলে সংক্রমণ খুব সহজেই এই জায়গাগুলি থেকে ছড়াতে পারে। তাই, এই বিশাল সংখ্যক কোমরবিড কেসগুলি কোন হাসপাতালে এবং সেখানে স্বাস্থ্য ও পরিচ্ছন্নতাবিধি কতটা মানা হচ্ছে না সেইটা নিশ্চিত করা খুবই জরুরি।

  • বিভাগ : আলোচনা | ২৫ এপ্রিল ২০২০ | ৪৯০ বার পঠিত
আরও পড়ুন
'The market...' - Jhuma Samadder
  • আমার গুরুবন্ধুদের জানানকরোনা ভাইরাস

  • পাতা : 1
  • অবশেষে | 162.158.167.193 | ২৫ এপ্রিল ২০২০ ১৭:০৭92672
  • এটা যদি আরো আগে আসত। এই লেখায় তোলা ভ্যালিড কনসার্নগুলি এবার হয়ত আড্রেসড হবে।
    ----
    All patients visiting hospitals in and around containment zones identified by the local authorities will be considered “suspected cases of Covid-19” and those getting admitted will undergo mandatory diagnostic tests for the coronavirus disease irrespective of symptoms, according to a central advisory on Tuesday.

    In a first, the Union health ministry advisory also advocated a clear demarcation between outpatient departments (OPDs) and wards, and asked doctors to stick to the same federal guidelines they follow in the treatment of Covid-19 patients even while attending to OPD patients.

    According to a ministry official, the advisory sent to state governments is aimed at preventing the spread of the deadly infection in health facilities, especially in light of the emergence of a few such cases in parts of the country.

    “There is a detailed guideline by the ministry on how to prevent hospital-acquired infection. But there have been cases where hospitals have reported the spread of infection and even shut down in some cases, probably because they got patients who had Covid-19 even though their symptoms weren’t pronounced enough…The new advisory is asking them to treat all patients as suspected Covid-19 cases, and take required safety measures,” the senior health ministry official who did not want to be named, said.

    For example, the paediatric intensive care unit of central Delhi’s Lady Hardinge Medical College emerged as a hotbed of infections last week, with 12 health care workers testing positive for Covid-19. Two babies in the ward -- a 45-day-old and a 10-month-old --- got infected. The 45-day-old baby died on Saturday morning.

    Since March 2, when the first infection was reported in Delhi, at least 80 health care workers and doctors have been infected in the national capital.

    https://m.hindustantimes.com/india-news/test-all-patients-getting-hospital-admissions-for-covid-19-centre-to-states/story-Wonk3rpLdKP1s7dDJJTrnM.html
  • সুর্য্যকান্ত | 162.158.103.150 | ২৫ এপ্রিল ২০২০ ১৭:৪৭92673
  • Indian express reports with Dr Randeep Guleria, AIIMS Director and India’s top pulmonologist that -
    Suppose a patient is terminally ill with cancer and tests positive for COVID-19 and succumbs. Is that a COVID-19 death?
    A COVID-19 death is one when a patient dies of COVID-related complications. You should understand 80% of the people will have COVID-19 and will recover as mild illness. If a terminally ill patient has tested positive and has COVID-19-caused pneumonia and sepsis and that leads to death, that will be a COVID-19-related death. If COVID-19 does not cause any respiratory problem, it is not a COVID-19 death.

    https://indianexpress.com/article/explained/coronavirus-covid-19-pandemic-cases-deaths-vaccine-drugs-india-strain-randeep-guleria-aiims-patients-6342777/?

  • করোনা ভাইরাস

  • পাতা : 1
  • কি, কেন, ইত্যাদি
  • বাজার অর্থনীতির ধরাবাঁধা খাদ্য-খাদক সম্পর্কের বাইরে বেরিয়ে এসে এমন এক আস্তানা বানাব আমরা, যেখানে ক্রমশ: মুছে যাবে লেখক ও পাঠকের বিস্তীর্ণ ব্যবধান। পাঠকই লেখক হবে, মিডিয়ার জগতে থাকবেনা কোন ব্যকরণশিক্ষক, ক্লাসরুমে থাকবেনা মিডিয়ার মাস্টারমশাইয়ের জন্য কোন বিশেষ প্ল্যাটফর্ম। এসব আদৌ হবে কিনা, গুরুচণ্ডালি টিকবে কিনা, সে পরের কথা, কিন্তু দু পা ফেলে দেখতে দোষ কী? ... আরও ...
  • আমাদের কথা
  • আপনি কি কম্পিউটার স্যাভি? সারাদিন মেশিনের সামনে বসে থেকে আপনার ঘাড়ে পিঠে কি স্পন্ডেলাইটিস আর চোখে পুরু অ্যান্টিগ্লেয়ার হাইপাওয়ার চশমা? এন্টার মেরে মেরে ডান হাতের কড়ি আঙুলে কি কড়া পড়ে গেছে? আপনি কি অন্তর্জালের গোলকধাঁধায় পথ হারাইয়াছেন? সাইট থেকে সাইটান্তরে বাঁদরলাফ দিয়ে দিয়ে আপনি কি ক্লান্ত? বিরাট অঙ্কের টেলিফোন বিল কি জীবন থেকে সব সুখ কেড়ে নিচ্ছে? আপনার দুশ্‌চিন্তার দিন শেষ হল। ... আরও ...
  • বুলবুলভাজা
  • এ হল ক্ষমতাহীনের মিডিয়া। গাঁয়ে মানেনা আপনি মোড়ল যখন নিজের ঢাক নিজে পেটায়, তখন তাকেই বলে হরিদাস পালের বুলবুলভাজা। পড়তে থাকুন রোজরোজ। দু-পয়সা দিতে পারেন আপনিও, কারণ ক্ষমতাহীন মানেই অক্ষম নয়। বুলবুলভাজায় বাছাই করা সম্পাদিত লেখা প্রকাশিত হয়। এখানে লেখা দিতে হলে লেখাটি ইমেইল করুন, বা, গুরুচন্ডা৯ ব্লগ (হরিদাস পাল) বা অন্য কোথাও লেখা থাকলে সেই ওয়েব ঠিকানা পাঠান (ইমেইল ঠিকানা পাতার নীচে আছে), অনুমোদিত এবং সম্পাদিত হলে লেখা এখানে প্রকাশিত হবে। ... আরও ...
  • হরিদাস পালেরা
  • এটি একটি খোলা পাতা, যাকে আমরা ব্লগ বলে থাকি। গুরুচন্ডালির সম্পাদকমন্ডলীর হস্তক্ষেপ ছাড়াই, স্বীকৃত ব্যবহারকারীরা এখানে নিজের লেখা লিখতে পারেন। সেটি গুরুচন্ডালি সাইটে দেখা যাবে। খুলে ফেলুন আপনার খেরোর খাতা, লিখতে থাকুন, বানান নিজের বাংলা ব্লগ, হয়ে উঠুন একমেবাদ্বিতীয়ম হরিদাস পাল, এ সুযোগ পাবেন না আর, দেখে যান নিজের চোখে...... আরও ...
  • টইপত্তর
  • নতুন কোনো বই পড়ছেন? সদ্য দেখা কোনো সিনেমা নিয়ে আলোচনার জায়গা খুঁজছেন? নতুন কোনো অ্যালবাম কানে লেগে আছে এখনও? সবাইকে জানান। এখনই। ভালো লাগলে হাত খুলে প্রশংসা করুন। খারাপ লাগলে চুটিয়ে গাল দিন। জ্ঞানের কথা বলার হলে গুরুগম্ভীর প্রবন্ধ ফাঁদুন। হাসুন কাঁদুন তক্কো করুন। স্রেফ এই কারণেই এই সাইটে আছে আমাদের বিভাগ টইপত্তর। ... আরও ...
  • ভাটিয়া৯
  • যে যা খুশি লিখবেন৷ লিখবেন এবং পোস্ট করবেন৷ তৎক্ষণাৎ তা উঠে যাবে এই পাতায়৷ এখানে এডিটিং এর রক্তচক্ষু নেই, সেন্সরশিপের ঝামেলা নেই৷ এখানে কোনো ভান নেই, সাজিয়ে গুছিয়ে লেখা তৈরি করার কোনো ঝকমারি নেই৷ সাজানো বাগান নয়, আসুন তৈরি করি ফুল ফল ও বুনো আগাছায় ভরে থাকা এক নিজস্ব চারণভূমি৷ আসুন, গড়ে তুলি এক আড়ালহীন কমিউনিটি ... আরও ...
যোগাযোগ করুন, লেখা পাঠান এই ঠিকানায় : [email protected]
মে ১৩, ২০১৪ থেকে সাইটটি বার পঠিত