ভাটিয়ালি | টইপত্তর | বুলবুলভাজা | হরিদাস পাল | খেরোর খাতা | বই
  • খেরোর খাতা

  • মোরে কর সভাকবি ধ্যানমৌন তোমার সভায়

    Bhudeb Sengupta লেখকের গ্রাহক হোন
    ০৮ মে ২০২২ | ৩০৯ বার পঠিত | রেটিং ৫ (১ জন)
  • "আজ তোমরা আবার আমার জন্মোৎসব করছ। জানি না আমার সম্পর্কে সব কথা ইতিমধ্যেই বলা হয়ে গেছে কিনা, নতুন কিছু আর বলার আছে কিনা ! সব কথা বলা হলো, বাকী শুধু রয়ে গেল কিছু বলিতে? আমি যদি ফুরিয়ে গিয়ে থাকি তাহলে সাহিত্যের রাজ‍্যে হারিয়েও গিয়েছি। আজ যদি কেউ আমাকে অশ্রদ্ধা করে, অবিশ্বাস করে, আমাকে স্মরণ না করে, তাহলে তার উপর কিছুতেই আমার অন্তত রাগ করা চলে না।

    তোমরা আমাকে গুরুদেব বলেছ, কবিগুরু বলেছ, বিশ্বকবির শিরোপাও দিয়েছ। আমি আস্তিক - সারাজীবন ধরে মহাবিশ্বের মহাকাশের মহাকালের মহাকবির সৃষ্টিকে আমি দেখেছি। তাঁর সূর্যোদয়, তার রাত্রি, তাঁর দিবস, তাঁর সমুদ্র, তাঁর সৃষ্ট মানুষ - এসব আমি যতবার করে দেখেছি, ততবারই তারা নতুন অর্থ নিয়ে আমার কাছে প্রকাশিত হয়েছে। তাই তো একাকী মানব আমি আজও ভ্রমি বিস্ময়ে। ভ্রমি বিস্ময়ে, গ্রহ থেকে তারায় তারায়। রূপনারায়ণের কোলে অপরূপের কোন সীমা আমি অন্তত কখনো খুঁজে পাই নি। আমি তো তাঁরই কবিশিষ‍্য - আমার রচনায় যদি মনে মনে কালে কালে আমাকেই নতূন করে খুঁজে না পাও, তা হলে তোমাদের এযুগে আমি কেউ নই, এখন আমি ইতিহাস হয়ে গিয়েছি। 

    আমি কি নিজেকেই চিনেছি কোনদিন?  কী আমি চেয়েছিলাম, কী আমি পেয়েছি, আর কী আমি তোমাদের দিতে পেরেছি - তাই কি আমি জানি? তার হিসেব মেলাতেও আজ আর ইচ্ছে করে না। প্রাণের দরজা খুলে দিয়ে যে মানুষ - যে পৃথিবীকে নিজের মধ্যে আমি ডাক দিয়েছি কোন সকালে, তারা কোন চিহ্ন, কোন পরিচয় আমার মধ্যে রেখে গেছে, তার লেখাজোকা যদি আজও শেষ না হয়ে থাকে, তাহলে আমি তো তারই মধ‍্যে বেঁচে আছি। আমার লেখায়, আমার ছবিতে, আমারই গানে আমারই অচেনা-অজানা আমাকে যত বেশী করে পাবে, ততই আমি তোমাদের কাছে থাকব, ততই এই রবিঠাকুর বারে বারে তোমাদের কাছে নতুন হয়ে দেখা দেবে।

    আর আজ যদি আমার সম্পর্কে কোন নতুন তথ‍্য, কোন নতুন ব‍্যাখা তোমাদের ভালো না লাগে, তাহলে তোমাদের কাছে আমি মৃত। আমি বলছি, তা হলে একটা কঙ্কাল  কে আর আঁকড়ে থেকো না - কোন জীবন্ত নবীন কবিকেই তোমরা এবার খুঁজে নাও।"

    পাদটীকা, ঋণস্বীকার ও জরুরি তথ‍্য : আমার আজকের খেরোর খাতা ঠিক মৌলিক রচনা নয়। অনেকদিন আগে কবিগুরুর এক জন্মদিনে সুনন্দর জার্নালে চিরকালীন শিরোনামে একটি লেখা প্রকাশিত হয়। লেখাটি খুঁজে পেয়ে পড়তে পড়তে এত ভালো লাগল যে মনে হলো এই লেখাটির প্রাসঙ্গিকতা আজও আছে। ঐ লেখাটি থেকে কিছুটা নিয়ে কিছুটা নতুন কিছু জুড়ে দিয়ে কবিগুরুকে আমার প্রণাম  জানালাম। আশাকরি পাঠকের আনুকূল্য থেকে বাদ পড়বে না। যদি সুনন্দর জার্নাল আবার পড়তে বসেন তাহলে এরকম অমূল্য রতনের খোঁজ আরও অনেক পাবেন। যা আজকের সমাজেও প্রাসঙ্গিক।
  • মতামত দিন
  • বিষয়বস্তু*:
  • সিদ্ধার্থ মুখোপাধ্যায় | 106.212.89.223 | ০৮ মে ২০২২ ১১:৩০507398
  • দারুণ লেখা। 
  • Bhudeb Sengupta | ০৮ মে ২০২২ ১১:৩৩507399
  • ধন্যবাদ বন্ধুবর। কালকে ৯ই মে।২৫ শে বৈশাখ ।
  • Tandra Chatterjee | 2402:3a80:1cd0:bccf:d166:5b8c:4564:43be | ০৮ মে ২০২২ ১৫:৫৪507411
  • খুব  সুন্দর লেখা হয়েছে . আরো পড়ার আশায় থাকলাম 
  • Bhudeb Sengupta | ০৮ মে ২০২২ ১৬:০৪507412
  • ধন্যবাদ। উৎসাহ পেলে নিশ্চয়ই আরো খাতার পাতা ভরে উঠবে।
  • শৌভিক সেনগুপ্ত | 2405:201:800b:c18b:2071:6a22:3638:8863 | ০৮ মে ২০২২ ১৮:৫৬507416
  • বেশ ভালো লাগলো লেখাটা পড়ে। প্রত্যেকবারই ভালো লাগে, তবে এই লেখাটি কিছুটা অন্যরকম। বেশ নতুন ধরনের!
  • Bhudeb Sengupta | ০৮ মে ২০২২ ১৯:০১507417
  • ধন্যবাদ ।
  • Debasish Sengupta | ০৯ মে ২০২২ ০০:৪১507433
  • খুব ভালো লাগলো, ধন্যবাদ । 
  • Bhudeb Sengupta | ০৯ মে ২০২২ ০৭:৫০507449
  • আপনার ভাল লাগা আমাকে আপ্লুত করেছে।ধন্যবাদ ।
  • ayan ghosal | ০৯ মে ২০২২ ১৪:৩৫507454
  • এই লেখা কোনোদিন অপ্রাসঙ্গিক হবে না, ওঁর লেখার মতোই চিরন্তন ।
  • Bhudeb Sengupta | ০৯ মে ২০২২ ২১:৩৮507470
  • ধন্যবাদ ।
  • মতামত দিন
  • বিষয়বস্তু*:
  • কি, কেন, ইত্যাদি
  • বাজার অর্থনীতির ধরাবাঁধা খাদ্য-খাদক সম্পর্কের বাইরে বেরিয়ে এসে এমন এক আস্তানা বানাব আমরা, যেখানে ক্রমশ: মুছে যাবে লেখক ও পাঠকের বিস্তীর্ণ ব্যবধান। পাঠকই লেখক হবে, মিডিয়ার জগতে থাকবেনা কোন ব্যকরণশিক্ষক, ক্লাসরুমে থাকবেনা মিডিয়ার মাস্টারমশাইয়ের জন্য কোন বিশেষ প্ল্যাটফর্ম। এসব আদৌ হবে কিনা, গুরুচণ্ডালি টিকবে কিনা, সে পরের কথা, কিন্তু দু পা ফেলে দেখতে দোষ কী? ... আরও ...
  • আমাদের কথা
  • আপনি কি কম্পিউটার স্যাভি? সারাদিন মেশিনের সামনে বসে থেকে আপনার ঘাড়ে পিঠে কি স্পন্ডেলাইটিস আর চোখে পুরু অ্যান্টিগ্লেয়ার হাইপাওয়ার চশমা? এন্টার মেরে মেরে ডান হাতের কড়ি আঙুলে কি কড়া পড়ে গেছে? আপনি কি অন্তর্জালের গোলকধাঁধায় পথ হারাইয়াছেন? সাইট থেকে সাইটান্তরে বাঁদরলাফ দিয়ে দিয়ে আপনি কি ক্লান্ত? বিরাট অঙ্কের টেলিফোন বিল কি জীবন থেকে সব সুখ কেড়ে নিচ্ছে? আপনার দুশ্‌চিন্তার দিন শেষ হল। ... আরও ...
  • বুলবুলভাজা
  • এ হল ক্ষমতাহীনের মিডিয়া। গাঁয়ে মানেনা আপনি মোড়ল যখন নিজের ঢাক নিজে পেটায়, তখন তাকেই বলে হরিদাস পালের বুলবুলভাজা। পড়তে থাকুন রোজরোজ। দু-পয়সা দিতে পারেন আপনিও, কারণ ক্ষমতাহীন মানেই অক্ষম নয়। বুলবুলভাজায় বাছাই করা সম্পাদিত লেখা প্রকাশিত হয়। এখানে লেখা দিতে হলে লেখাটি ইমেইল করুন, বা, গুরুচন্ডা৯ ব্লগ (হরিদাস পাল) বা অন্য কোথাও লেখা থাকলে সেই ওয়েব ঠিকানা পাঠান (ইমেইল ঠিকানা পাতার নীচে আছে), অনুমোদিত এবং সম্পাদিত হলে লেখা এখানে প্রকাশিত হবে। ... আরও ...
  • হরিদাস পালেরা
  • এটি একটি খোলা পাতা, যাকে আমরা ব্লগ বলে থাকি। গুরুচন্ডালির সম্পাদকমন্ডলীর হস্তক্ষেপ ছাড়াই, স্বীকৃত ব্যবহারকারীরা এখানে নিজের লেখা লিখতে পারেন। সেটি গুরুচন্ডালি সাইটে দেখা যাবে। খুলে ফেলুন আপনার নিজের বাংলা ব্লগ, হয়ে উঠুন একমেবাদ্বিতীয়ম হরিদাস পাল, এ সুযোগ পাবেন না আর, দেখে যান নিজের চোখে...... আরও ...
  • টইপত্তর
  • নতুন কোনো বই পড়ছেন? সদ্য দেখা কোনো সিনেমা নিয়ে আলোচনার জায়গা খুঁজছেন? নতুন কোনো অ্যালবাম কানে লেগে আছে এখনও? সবাইকে জানান। এখনই। ভালো লাগলে হাত খুলে প্রশংসা করুন। খারাপ লাগলে চুটিয়ে গাল দিন। জ্ঞানের কথা বলার হলে গুরুগম্ভীর প্রবন্ধ ফাঁদুন। হাসুন কাঁদুন তক্কো করুন। স্রেফ এই কারণেই এই সাইটে আছে আমাদের বিভাগ টইপত্তর। ... আরও ...
  • ভাটিয়া৯
  • যে যা খুশি লিখবেন৷ লিখবেন এবং পোস্ট করবেন৷ তৎক্ষণাৎ তা উঠে যাবে এই পাতায়৷ এখানে এডিটিং এর রক্তচক্ষু নেই, সেন্সরশিপের ঝামেলা নেই৷ এখানে কোনো ভান নেই, সাজিয়ে গুছিয়ে লেখা তৈরি করার কোনো ঝকমারি নেই৷ সাজানো বাগান নয়, আসুন তৈরি করি ফুল ফল ও বুনো আগাছায় ভরে থাকা এক নিজস্ব চারণভূমি৷ আসুন, গড়ে তুলি এক আড়ালহীন কমিউনিটি ... আরও ...
গুরুচণ্ডা৯-র সম্পাদিত বিভাগের যে কোনো লেখা অথবা লেখার অংশবিশেষ অন্যত্র প্রকাশ করার আগে গুরুচণ্ডা৯-র লিখিত অনুমতি নেওয়া আবশ্যক। অসম্পাদিত বিভাগের লেখা প্রকাশের সময় গুরুতে প্রকাশের উল্লেখ আমরা পারস্পরিক সৌজন্যের প্রকাশ হিসেবে অনুরোধ করি। যোগাযোগ করুন, লেখা পাঠান এই ঠিকানায় : [email protected]


মে ১৩, ২০১৪ থেকে সাইটটি বার পঠিত
পড়েই ক্ষান্ত দেবেন না। যা খুশি প্রতিক্রিয়া দিন