• খেরোর খাতা

  • ড্রেস 

    Rajkumar Mahato লেখকের গ্রাহক হোন
    ০১ ডিসেম্বর ২০২০ | ১৮৫ বার পঠিত | ২ জন)
  • পছন্দ
    জমিয়ে রাখুন পুনঃপ্রচার
  • ড্রেস

     

    কদিন হল অফিস বাসেই যাচ্ছি। অর্থে কুলাচ্ছে না। কত যোগান দেব ক্যাবের টাকা। যাক সেসব দুঃখ শুনিয়ে আর লাভ নেই। আজকে বাসে উঠে দেখলাম বেশ ফাঁকা। যদিও প্রতিদিন সকালে ফাঁকাই থাকে। কারণ, সিটের জন্য সকাল বেলা ভাইকে দৌড় করাই বাসস্ট্যান্ডে।

    জানলার পাশে সিট নিয়ে বসলাম। দু-স্টপেজ পড়ে একজন মধ্যবয়সী ভদ্রলোক আমার পাশে এসে বসলেন। বেশ ফর্সা,ডান কাঁধে একটা অফিস ব্যাগ। চোখে মোটা ফ্রেমের একখানি চশমা। মুখে অবশ্যই মাস্ক।চুলগুলো একেবারেই সাদা হয়ে গেছে।

    ছোট্ট একটা হাসি দিয়ে আমার পাশে বসলেন উনি। আমি একটু সরে বসলাম। উনি বললেন “ঠিক আছে, ঠিক আছে আমার বসতে কোন অসুবিধা হচ্ছে না।“ আমি হালকা হেসে হেডফোনে গান শুনতে লাগলাম।

    লক্ষ্য করলাম বাসের যে ক’টা স্টপেজ থেকে  কোন মহিলা বাসে উঠলেন। ভদ্রলোক তার উপর থেকে নীচে একবার করে দেখছেন। আমার ভালো লাগছিল না ওনার এভাবে তাকানো। কিন্তু আগ বাড়িয়ে কিছু বললাম না। কারণ, উনি দেখছিলেন। আর আমাদের দেশে দেখাটা ফ্রি। তা আপনার নজর যেরকমই হোক। আমি আগ বাড়িয়ে কিছু বলতে গেলে হয়ত পাশের কেউ বলতেন “ ওনার বয়সটা দেখুন।“ তাই কিছু বললাম না।

    কালীঘাট মন্দিরের পাশ দিয়ে যাওয়ার সময় মিনিট দুই হাতটা জোড় করে ভদ্রলোক নমস্কার করছেন দেখলাম। আর বিড়-বিড় করে কিছু একটা বলছেন লক্ষ্য করলাম। বুঝলাম ওনার মনের কোন কামনা বলছেন হয়ত।

    পরের স্টপেজ থেকে একটা মেয়ে উঠলো। হাটুর উপর একটা স্কার্ট, উপরে একটা জ্যাকেট। চুলটা ছেলেদের মত করে কাটা। আসলে ওই ছোট-ছোট করে চুল কাটাকে কি ছাঁট বলে ঠিক মনে পড়ছে না এই মুহুর্তে।

    লক্ষ্য করলাম ভদ্রলোক এক দৃষ্টে তাকিয়ে আছেন। আমি ওনার দিকে তাকিয়ে মুখটা ঘুরিয়ে নিলাম। মিনিট দুই পর মুখটা ঘোরাতেই অবাক হয়ে গেলাম। ভদ্রলোকে তখনও মেয়েটার দিকে তাকিয়ে। মেয়েটি সিটে বসেছিল আর তার হাটূর অনেকটা অপরেই উঠে গেছিল স্কার্টটা। আর দেখলাম বাসের ম্যাস্কিমাম পুরুষের চোখ ওই দিকেই।আর কেউ কেউ তো ডাইরেক্ট মুখটা পিছন দিকে ঘুরিয়ে দেখছে। এমনকি মহিলারাও মেয়েটার দিকে তাকিয়ে। তবে সেসব নিয়ে মেয়েটার কোন মাথাব্যাথা নেই। দিব্যি ফোনে কথা বলছে, হাসছে এদিক ওদিক তাকাচ্ছে। সবাইকে দেখছে। ওর কোন ভ্রুক্ষেপ নেই যে ওকে কে কিরকম ভাবে দেখছে।

    পুন্য আসতে মেয়েটি নেমে গেল। যাওয়ার পর সবার মুখ আবার সামনের দিকে হল। কাকুটা আমার দিকে তাকিয়ে বললেন “এই সব ড্রেস পড়লে ধর্ষন হবেনা বলো?” আমি কাকুটির দিকে তাকিয়ে বললাম “ আট মাসের বাচ্ছাটারও কি ড্রেস দেখে ধর্ষন হয়েছিল কাকু?”কাকুর মুখে আর কোন উত্তর নেই।

  • ০১ ডিসেম্বর ২০২০ | ১৮৫ বার পঠিত | ২ জন)
  • পছন্দ
    জমিয়ে রাখুন গ্রাহক পুনঃপ্রচার
  • মতামত দিন
  • বিষয়বস্তু*:
  • santosh banerjee | ০২ ডিসেম্বর ২০২০ ১৫:৩৯100858
  • ভারত বর্ষের ১০০ জনের মধ্যে ৯৯ জন হোলো সেক্স ম্যানিয়াক !!এটা কেউ মানুন আর নাই মানুন ।..কিস্সু যায় আসে না !!এটা অপ্রিয় সত্য ! মাতৃ জাতি কে দেখলেই ।.সে যে বয়স বাজে রঙের বাজে জাতির হোক না কেন ।.ওই শরীরের দিকে নজর পড়বেই ।..আর লিবিডো র সুড়সুড়ি ।..!!এটার থেকে মুক্ত হতে ।..মানে এই অসুখ টা থেকে রেহাই পেতে যা দরকার সেটা এখনো এ দেশে হয় নি ।..হবেও না !!কোনো এক নাট্যকার বলেছিলেন "" হায় রে মানুষ কোনো পথ কুক্কুরীর গর্ভে জন্ম হলো না কেন তোর ?নিশ্চিত মৈথুন শেষে ক্লান্ত প্রসব ।..আবার ফিরে এসে গভীর রাতে পুনর্বার যৌন মিলন ""????

  • Rajkumar Mahato | ০৩ ডিসেম্বর ২০২০ ২১:১৯100898
  • একেবারেই সঠিক বলেছেন আপনি। সংস্কৃতিকে অস্ত্র করে ঢাক পিটিয়ে আমরা তার অপব্যবহার করতে জানি।

  • mainank bhowmik | ০৪ ডিসেম্বর ২০২০ ১৪:৩৯100925
  • দারুন দাদা 

আমার গুরুবন্ধুদের জানানকরোনা
  • মতামত দিন
  • বিষয়বস্তু*:
  • কি, কেন, ইত্যাদি
  • বাজার অর্থনীতির ধরাবাঁধা খাদ্য-খাদক সম্পর্কের বাইরে বেরিয়ে এসে এমন এক আস্তানা বানাব আমরা, যেখানে ক্রমশ: মুছে যাবে লেখক ও পাঠকের বিস্তীর্ণ ব্যবধান। পাঠকই লেখক হবে, মিডিয়ার জগতে থাকবেনা কোন ব্যকরণশিক্ষক, ক্লাসরুমে থাকবেনা মিডিয়ার মাস্টারমশাইয়ের জন্য কোন বিশেষ প্ল্যাটফর্ম। এসব আদৌ হবে কিনা, গুরুচণ্ডালি টিকবে কিনা, সে পরের কথা, কিন্তু দু পা ফেলে দেখতে দোষ কী? ... আরও ...
  • আমাদের কথা
  • আপনি কি কম্পিউটার স্যাভি? সারাদিন মেশিনের সামনে বসে থেকে আপনার ঘাড়ে পিঠে কি স্পন্ডেলাইটিস আর চোখে পুরু অ্যান্টিগ্লেয়ার হাইপাওয়ার চশমা? এন্টার মেরে মেরে ডান হাতের কড়ি আঙুলে কি কড়া পড়ে গেছে? আপনি কি অন্তর্জালের গোলকধাঁধায় পথ হারাইয়াছেন? সাইট থেকে সাইটান্তরে বাঁদরলাফ দিয়ে দিয়ে আপনি কি ক্লান্ত? বিরাট অঙ্কের টেলিফোন বিল কি জীবন থেকে সব সুখ কেড়ে নিচ্ছে? আপনার দুশ্‌চিন্তার দিন শেষ হল। ... আরও ...
  • বুলবুলভাজা
  • এ হল ক্ষমতাহীনের মিডিয়া। গাঁয়ে মানেনা আপনি মোড়ল যখন নিজের ঢাক নিজে পেটায়, তখন তাকেই বলে হরিদাস পালের বুলবুলভাজা। পড়তে থাকুন রোজরোজ। দু-পয়সা দিতে পারেন আপনিও, কারণ ক্ষমতাহীন মানেই অক্ষম নয়। বুলবুলভাজায় বাছাই করা সম্পাদিত লেখা প্রকাশিত হয়। এখানে লেখা দিতে হলে লেখাটি ইমেইল করুন, বা, গুরুচন্ডা৯ ব্লগ (হরিদাস পাল) বা অন্য কোথাও লেখা থাকলে সেই ওয়েব ঠিকানা পাঠান (ইমেইল ঠিকানা পাতার নীচে আছে), অনুমোদিত এবং সম্পাদিত হলে লেখা এখানে প্রকাশিত হবে। ... আরও ...
  • হরিদাস পালেরা
  • এটি একটি খোলা পাতা, যাকে আমরা ব্লগ বলে থাকি। গুরুচন্ডালির সম্পাদকমন্ডলীর হস্তক্ষেপ ছাড়াই, স্বীকৃত ব্যবহারকারীরা এখানে নিজের লেখা লিখতে পারেন। সেটি গুরুচন্ডালি সাইটে দেখা যাবে। খুলে ফেলুন আপনার খেরোর খাতা, লিখতে থাকুন, বানান নিজের বাংলা ব্লগ, হয়ে উঠুন একমেবাদ্বিতীয়ম হরিদাস পাল, এ সুযোগ পাবেন না আর, দেখে যান নিজের চোখে...... আরও ...
  • টইপত্তর
  • নতুন কোনো বই পড়ছেন? সদ্য দেখা কোনো সিনেমা নিয়ে আলোচনার জায়গা খুঁজছেন? নতুন কোনো অ্যালবাম কানে লেগে আছে এখনও? সবাইকে জানান। এখনই। ভালো লাগলে হাত খুলে প্রশংসা করুন। খারাপ লাগলে চুটিয়ে গাল দিন। জ্ঞানের কথা বলার হলে গুরুগম্ভীর প্রবন্ধ ফাঁদুন। হাসুন কাঁদুন তক্কো করুন। স্রেফ এই কারণেই এই সাইটে আছে আমাদের বিভাগ টইপত্তর। ... আরও ...
  • ভাটিয়া৯
  • যে যা খুশি লিখবেন৷ লিখবেন এবং পোস্ট করবেন৷ তৎক্ষণাৎ তা উঠে যাবে এই পাতায়৷ এখানে এডিটিং এর রক্তচক্ষু নেই, সেন্সরশিপের ঝামেলা নেই৷ এখানে কোনো ভান নেই, সাজিয়ে গুছিয়ে লেখা তৈরি করার কোনো ঝকমারি নেই৷ সাজানো বাগান নয়, আসুন তৈরি করি ফুল ফল ও বুনো আগাছায় ভরে থাকা এক নিজস্ব চারণভূমি৷ আসুন, গড়ে তুলি এক আড়ালহীন কমিউনিটি ... আরও ...
যোগাযোগ করুন, লেখা পাঠান এই ঠিকানায় : [email protected]
মে ১৩, ২০১৪ থেকে সাইটটি বার পঠিত


পড়েই ক্ষান্ত দেবেন না। যা মনে চায় মতামত দিন