এই সাইটটি বার পঠিত
ভাটিয়ালি | টইপত্তর | বুলবুলভাজা | হরিদাস পাল | খেরোর খাতা | বই
  • হরিদাস পাল  অন্যান্য  শোনা কথা

  • হাটুয়া সাধু ভোটুয়া ফকির 

    Naresh Jana লেখকের গ্রাহক হোন
    অন্যান্য | শোনা কথা | ২৫ মে ২০২৪ | ৪১৫ বার পঠিত
  • বলেছিলাম, বাবা সবই রাজনীতি! তো সাধুবাবা মানতে নারাজ! বলেন, নেহি বেটা আত্মা অউর পরমাত্মাকে বীচ রাজনীতি উজনীতি কুছু নাই। সিরেফ পিরেম আছে। সেই সাধুবাবা এবার রাস্তায় হাঁটছেন!...... তবে হাতে মোমবাতি ছিল না! না'হলে লোকে হয় বলত 'সাধু বুদ্ধিজীবী' অথবা 'বুদ্ধিজীবী সাধু।' না, কেউ রাগ করবেন না প্লিজ। বিষয়টা ভাবার চেষ্টা করুন। একে কলি কাল তায় পশ্চিমবঙ্গ! এখানে এখন লোকে প্রশ্ন করে, আচ্ছা বুদ্ধিজীবীরা কি আদৌ সাধু? এবার থেকে এও প্রশ্ন করবে, আচ্ছা ভাই সাধুরা কি বুদ্ধিজীবী আছে? অমনি চিৎকার শুরু হবে, কেন আমাদের অমুকানন্দ, ওদের তমুকানন্দ, তারপর হল গিয়ে তাদের প্রভুজী ইত্যাদি ইত্যাদি। তারপরও বলছ সাধুদের মধ্যে বুদ্ধিজীবী নেই? 
     আমি কিন্তু সে কথা বলছিনা। বলছি বুদ্ধিমত্তা বা পান্ডিত্য হয়ত কোন কোন সাধুর মধ্যে আছে কিন্তু সেই সাধুরা তো বুদ্ধি কে জীবিকা করেনা। তাহলে তাঁদের অন্ততঃ বুদ্ধিজীবী তো বলা যায়না। সেই অর্থে বলছিলাম তেলে জলে মেলেনা। কিন্তু ওই যে বললাম একে বঙ্গ তায় কলি কাল সুতরাং মেলাবেন তিনি মেলাবেন। হুঁ হুঁ বাবা, বুদ্ধিজীবীরা মুখ লুকিয়েছে বলে কী ফায়দা মিছিল হবেনা? সাধুরা নেই? সুতরাং পরাও সাধুর পোশাক, পরাও। ওদের হাতে মোমবাতি তো এদের হাতে ত্রিশূল, লাঠি। আরে দাঁড়াও দাঁড়াও! কে যেন বলেছিলেন, “সন্ন্যাসী ও সন্ন্যাসিনীদিগকে ত্রিশূল হাতে হিন্দু মহাসভা ভোট ভিক্ষায় পাঠাইয়াছেন। ত্রিশূল ও গৈরিক বসন দেখিলে হিন্দু মাত্রেই শির নত করে। ধর্মের সুযোগ নিয়া, ধর্মকে কলুষিত করিয়া হিন্দু মহাসভা রাজনীতি ক্ষেত্রে দেখা দিয়েছে। হিন্দু মাত্রেরই তাদের নিন্দা করা কর্তব্য।” কে বলেছিলেন? সুভাষ চন্দ্র বসু । তাইনা? সেই ১৯৪০ সালে। বাব্বা! তখন থেকেই সাধুরা হাঁটছেন?
          
    ২০০৭ সালে সাধু আর বুদ্ধিজীবীরা একসাথে হেঁটেছিলেন। এবার বুদ্ধিজীবীরা 'নি রিপ্লেসমেন্ট' সেন্টারের লাইনে তাই সাধু একাই হাঁটছে। দুড়দাড় হুড়হাড় সাধু হাঁটছে! এ যে একেবারে ত্রহ্ স্পর্শ যোগ! ছ'য়ের মাথায় পা দিয়ে সাতের মাথায় যা। এই-ই হল মাহেন্দ্রক্ষণ! এই বেলা ডুব দে। পঁচিশ আর এক। ব্যাস্ ভুট শেষ। চারে খেলা হবে। একদম চার কিংবা ছয় রানে খেল্ মাইজী-বাবাজী-গুরুজীর ব্যাটারা...দেখ্ ক্যামন লাগে। ঘি মাখন খাওয়া, রোটি লিট্টি খাওয়া, ছাতু তুতু খাওয়া বড় মেজো সেজো ছোট সাধু বাবারা হাঁটো।
    ধুর! আপনি বড় ক্যাচাল করেণ তো মশাই, আমি এক কথা বলি তো আপনি উল্টো বোঝেন। আমি কী বলেছি যে ভোটের ষষ্ঠ দফা সপ্তম দফার কথা? আমি বলেছি ছ’য়ের মাথায় পা দিয়ে সাতের মাথায় যা! এর মধ্যে সাত পাঁচ ভাবার কী আছে? তোমরা হলে ফকিরের দল আর এদেশে ফকিরের বাজারই ভালো। ওই যে দেশের সবচেয়ে বড় ফকিরের কথাই ধর , ‘মেরা ক্যায়া? ম্যায় তো ফকির আদমি হুঁ। ঝোলা লেকে লৌট পড়ুঙ্গা।’ সে যাও বাবা কিন্তু ১.৬ লাখের জার্মান মে-বেচ সানগ্লাস, ১.৩ লাখের মোভাদো হাতঘড়ি, ১.৩০ মন্টব্লান্স পেন টেন রেখে যাবে তো? আর আপনার হাতের ওই ৪৫ গ্রাম করে চারটে আংটির দাম এখন তো ১কোটি ৭৫ লক্ষ ছাড়িয়ে গেছে তাইনা? না না, আপনি ফকির মানুষ, সাধুবাবা আপনি ১২ কোটির মার্সিডিজ চড়বেন, সাড়ে চার হাজার কোটির বিমান চড়বেন বলেই তো সাধুবাবারা হাঁটছে। হাঁটুন, সাধু বাবারা হাঁটুন…..
     
    তবে একটা কথা মনে রাখুন, নিজেদের সাধুসম্মানে টান পড়েছে বলে কলকাতায় হাঁটছেন, আপনাদের বিজেপি বলে গালাগালি করেছে বলে হাঁটছেন ঠিক আছে কিন্তু দেশের বড় ফকির মানে মহাসাধুর কুর্তা পাঞ্জাবি আর রুসগুল্লা এই কলকাতা থেকেই যায় ফি বছর। হ্যাঁ যিনি আপনাদের গালাগালি করেছে তিনিই পাঠান। তাঁর সংগে ফকিরের যোগ আত্মা পরমাত্মার মতই। না’হলে ভাইপো কী জেলের বাইরে….যা! এইবেলা রাজনীতি থাক। বরং হাঁটা যাক, হাঁটা বাবা পার করে গা, ট্রেডিং মিল পার করে গা.. হাঁটা খালি পায়ে কিন্তু লড়াই ধরে রাখতে হবে ‘হাওয়াই চটি আর নাঙ্গা পা’য়ের মধ্যে। নাঙ্গা বলা এই কারণে যে বড় ফকিরের  জুতোর পরিমাণ এত যে মূল্য নির্ধারণ করা মুশকিল। অতএব আত্মা হাঁটে পরমাত্মার মাথায় জল ঢালতে, ভোট বাড়ে ফকির-ফকিরানীর।।।
    পুনঃপ্রকাশ সম্পর্কিত নীতিঃ এই লেখাটি ছাপা, ডিজিটাল, দৃশ্য, শ্রাব্য, বা অন্য যেকোনো মাধ্যমে আংশিক বা সম্পূর্ণ ভাবে প্রতিলিপিকরণ বা অন্যত্র প্রকাশের জন্য গুরুচণ্ডা৯র অনুমতি বাধ্যতামূলক। লেখক চাইলে অন্যত্র প্রকাশ করতে পারেন, সেক্ষেত্রে গুরুচণ্ডা৯র উল্লেখ প্রত্যাশিত।
  • অন্যান্য | ২৫ মে ২০২৪ | ৪১৫ বার পঠিত
  • মতামত দিন
  • বিষয়বস্তু*:
  • | ২৫ মে ২০২৪ ২১:৪৫532330
  • অ রাকৃমির সাধুরা রাস্তায় হাঁটছে বুঝি? তা হাঁটুক।  হাঁটা ভাল হাঁটলে মেদ ঝরে।  
    বেলুড় মঠে ওঁয়ারা তো বড় ফকিরের সাথে সেলপি তুলছিলেন। সেও যখন শাহীন বাগ রাস্তায় বসে। শাহীনবাগের আদলে ছোটবড় শহরে সব রাস্তায় বসে তখন ওঁয়ারা সেলপি টেলপি তুলছিলেন।
  • :|: | 174.251.161.133 | ২৫ মে ২০২৪ ২২:১৬532331
  • মিশনের ওনারা মনে হয় হাঁটেননি। ছবিটবি তোলা, হাসি গপ্প ইত্যাদি রসেবশে থাকা অবধি উনাদের ঠিক আছে। তার বেশী ওনাদের কারও সঙ্গেই যেতে দেখা গেছে কি? যদ্দুর বুঝি ​​​​​​​কাজটা ​​​​​​​ওনাদের ​​​​​​​ফোকাস। ​​​​​​​সেজন্য যতটুকু ​​​​​​​দরকার ​​​​​​​সাধারণত ​​​​​​​তার ​​​​​​​বাইরে ​​​​​​​যাবেননা। ​​​​​​​
    পথের রাজনীতির জন্য কাত্তিক ঠাকুরের দল ইত্যাদিরা।
  • upal mukhopadhyay | ২৫ মে ২০২৪ ২৩:৩০532336
  • আপনি  ঠিক  কী বলতে  চাইছেন  বুঝিনি ।অনেকগুলো পয়েন্ট এনে  গুলিয়েছেন বলে  মনে হচ্ছে। 
  • সৃষ্টিছাড়া | 2401:4900:706f:dcdd:8969:6c09:cc66:cd77 | ২৬ মে ২০২৪ ২৩:২২532359
  • আবার চটি চাটা ভাট 
  • :|: | 174.251.161.133 | ২৬ মে ২০২৪ ২৩:৫২532361
  • চটি? চটি পেলেন কোথা? খালি পায়ে হেঁটেছেন তো! অন্তত খবরে তেমনই লিখেছে। 
  • মতামত দিন
  • বিষয়বস্তু*:
  • কি, কেন, ইত্যাদি
  • বাজার অর্থনীতির ধরাবাঁধা খাদ্য-খাদক সম্পর্কের বাইরে বেরিয়ে এসে এমন এক আস্তানা বানাব আমরা, যেখানে ক্রমশ: মুছে যাবে লেখক ও পাঠকের বিস্তীর্ণ ব্যবধান। পাঠকই লেখক হবে, মিডিয়ার জগতে থাকবেনা কোন ব্যকরণশিক্ষক, ক্লাসরুমে থাকবেনা মিডিয়ার মাস্টারমশাইয়ের জন্য কোন বিশেষ প্ল্যাটফর্ম। এসব আদৌ হবে কিনা, গুরুচণ্ডালি টিকবে কিনা, সে পরের কথা, কিন্তু দু পা ফেলে দেখতে দোষ কী? ... আরও ...
  • আমাদের কথা
  • আপনি কি কম্পিউটার স্যাভি? সারাদিন মেশিনের সামনে বসে থেকে আপনার ঘাড়ে পিঠে কি স্পন্ডেলাইটিস আর চোখে পুরু অ্যান্টিগ্লেয়ার হাইপাওয়ার চশমা? এন্টার মেরে মেরে ডান হাতের কড়ি আঙুলে কি কড়া পড়ে গেছে? আপনি কি অন্তর্জালের গোলকধাঁধায় পথ হারাইয়াছেন? সাইট থেকে সাইটান্তরে বাঁদরলাফ দিয়ে দিয়ে আপনি কি ক্লান্ত? বিরাট অঙ্কের টেলিফোন বিল কি জীবন থেকে সব সুখ কেড়ে নিচ্ছে? আপনার দুশ্‌চিন্তার দিন শেষ হল। ... আরও ...
  • বুলবুলভাজা
  • এ হল ক্ষমতাহীনের মিডিয়া। গাঁয়ে মানেনা আপনি মোড়ল যখন নিজের ঢাক নিজে পেটায়, তখন তাকেই বলে হরিদাস পালের বুলবুলভাজা। পড়তে থাকুন রোজরোজ। দু-পয়সা দিতে পারেন আপনিও, কারণ ক্ষমতাহীন মানেই অক্ষম নয়। বুলবুলভাজায় বাছাই করা সম্পাদিত লেখা প্রকাশিত হয়। এখানে লেখা দিতে হলে লেখাটি ইমেইল করুন, বা, গুরুচন্ডা৯ ব্লগ (হরিদাস পাল) বা অন্য কোথাও লেখা থাকলে সেই ওয়েব ঠিকানা পাঠান (ইমেইল ঠিকানা পাতার নীচে আছে), অনুমোদিত এবং সম্পাদিত হলে লেখা এখানে প্রকাশিত হবে। ... আরও ...
  • হরিদাস পালেরা
  • এটি একটি খোলা পাতা, যাকে আমরা ব্লগ বলে থাকি। গুরুচন্ডালির সম্পাদকমন্ডলীর হস্তক্ষেপ ছাড়াই, স্বীকৃত ব্যবহারকারীরা এখানে নিজের লেখা লিখতে পারেন। সেটি গুরুচন্ডালি সাইটে দেখা যাবে। খুলে ফেলুন আপনার নিজের বাংলা ব্লগ, হয়ে উঠুন একমেবাদ্বিতীয়ম হরিদাস পাল, এ সুযোগ পাবেন না আর, দেখে যান নিজের চোখে...... আরও ...
  • টইপত্তর
  • নতুন কোনো বই পড়ছেন? সদ্য দেখা কোনো সিনেমা নিয়ে আলোচনার জায়গা খুঁজছেন? নতুন কোনো অ্যালবাম কানে লেগে আছে এখনও? সবাইকে জানান। এখনই। ভালো লাগলে হাত খুলে প্রশংসা করুন। খারাপ লাগলে চুটিয়ে গাল দিন। জ্ঞানের কথা বলার হলে গুরুগম্ভীর প্রবন্ধ ফাঁদুন। হাসুন কাঁদুন তক্কো করুন। স্রেফ এই কারণেই এই সাইটে আছে আমাদের বিভাগ টইপত্তর। ... আরও ...
  • ভাটিয়া৯
  • যে যা খুশি লিখবেন৷ লিখবেন এবং পোস্ট করবেন৷ তৎক্ষণাৎ তা উঠে যাবে এই পাতায়৷ এখানে এডিটিং এর রক্তচক্ষু নেই, সেন্সরশিপের ঝামেলা নেই৷ এখানে কোনো ভান নেই, সাজিয়ে গুছিয়ে লেখা তৈরি করার কোনো ঝকমারি নেই৷ সাজানো বাগান নয়, আসুন তৈরি করি ফুল ফল ও বুনো আগাছায় ভরে থাকা এক নিজস্ব চারণভূমি৷ আসুন, গড়ে তুলি এক আড়ালহীন কমিউনিটি ... আরও ...
গুরুচণ্ডা৯-র সম্পাদিত বিভাগের যে কোনো লেখা অথবা লেখার অংশবিশেষ অন্যত্র প্রকাশ করার আগে গুরুচণ্ডা৯-র লিখিত অনুমতি নেওয়া আবশ্যক। অসম্পাদিত বিভাগের লেখা প্রকাশের সময় গুরুতে প্রকাশের উল্লেখ আমরা পারস্পরিক সৌজন্যের প্রকাশ হিসেবে অনুরোধ করি। যোগাযোগ করুন, লেখা পাঠান এই ঠিকানায় : [email protected]


মে ১৩, ২০১৪ থেকে সাইটটি বার পঠিত
পড়েই ক্ষান্ত দেবেন না। যা মনে চায় প্রতিক্রিয়া দিন