• খেরোর খাতা

  • ফরিশতা ও মেয়েরা প্রসঙ্গে : সুকন্যা

    নিবেদিতা ক্ষেপী লেখকের গ্রাহক হোন
    ১৩ মে ২০২১ | ২০২ বার পঠিত
  • পছন্দ
    জমিয়ে রাখুন পুনঃপ্রচার
  • পপলার গাছ এখানে আসবার আগে কখনও চোখে দেখেনি আন্নু।... সরু সরু ডালপালা আকাশের দিকে খাড়া হয়ে আছে যেন আঙুল তুলে গাছগুলো কাউকে অভিশাপ দিচ্ছে। ওদের পায়ের কাছে উজ্জ্বল সর্ষেখেত না থাকলে একদলা জমাট কান্নার মতো লাগত পপলার গাছগুলোকে।" (জল) গল্প শুরুর কিছুক্ষণের মধ্যেই লেখকের এমন অসাধারণ চিত্রকল্প রচনায় পাঠককে মুগ্ধ হতেই হয়। গল্প একটু এগোতেই আন্নু, গাছেদের   অভিশাপ আর একদলা জমাট কান্না একাকার হয়ে যায় কোথায় যেন। এমন উপমা-চিত্রকল্প খুব সহজ স্বচ্ছন্দভাবে এসেছে বারবার মাত্র ১০৫ পৃষ্ঠার সীমারেখা জুড়ে।


    প্রকৃতিকে বারবার প্রতিভা ব্যবহার করেছেন অসামান্য তুলির টানে। "সূর্য ডুবছে, সবুজ, কমলা, লালচে আলো ছড়িয়ে পড়ছে লঞ্চের নীচে পেষাই হওয়া ঢেউগুলোর গায়ে..."। ( জন্মান্তর) এমন নমুনা অঢেল।


    বিষয় নির্বাচনের অভিনবত্বের চেয়ে অনেক বড় হল শিল্পীর দেখার চোখ, দৃষ্টিভঙ্গি। আর সেদিক থেকে প্রতিভা যথার্থই প্রতিভাধর। 'ফরিশতা' বিশেষত 'আত্মজা' যথার্থই ব্যতিক্রমী সৃষ্টি। 'আত্মজা' যেকোন মানদণ্ডেই বিশ্ব সাহিত্যের তাবড় ছোটগল্পের প্রতিযোগী না হলেও সহযোগী তো বটেই।


    বইটির বেশিরভাগ গল্পই নারীকেন্দ্রিক। কিন্তু প্রতিভার গল্প বারবার মনে করিয়ে দিতে পেরেছে যে তিনি শুধুই একজন 'লেখিকা' নন, লিঙ্গ-পরিচয়ের বাইরে বেরিয়ে তিনি এক শিল্পী, একজন মানুষ। সামাজিক ট্যাবু ছেড়ে যৌনতাকে যখন যেভাবে দরকার তখন সেভাবেই ব্যবহার করেছেন তিনি। সমাজমানসিক গঠনের কারণেই হয়তবা বহুক্ষেত্রে মহিলা গল্পকারেরা নারীর হৃদয়বৃত্তিজনিত সমস্যার আলোচনায় যতটা স্বচ্ছন্দ, শারীরবৃত্তীয় প্রক্রিয়াসমূহকে প্রকাশ করতে কোথায় যেন রয়ে যায় একটু দ্বিধা। যেন দুনিয়ার সামনে প্রকাশ হয়ে পড়ছে নিজেরই যৌনাঙ্গ। আর ঠিক এই সমাজমনেরই উর্ধ্বে উঠতে পেরেছেন প্রতিভা।


    প্রতিভা সরকারের গল্পের বিশ্লেষণ আমার উদ্দেশ্য নয়, তাঁর লেখনীর প্রতি মুগ্ধতা ও শ্রদ্ধার অনুভূতি সকলের সঙ্গে ভাগ করে নেওয়ার জন্যই এই লেখা। সেই মুগ্ধতা ভালোবাসায় পরিণত হয় শেষ গল্প 'মরণ'এ পৌঁছে। "আসলে মনটা বোধ হয় একটা গভীর কুয়োর মতোই।" কিছুই ঘটে না গোটা গল্প জুড়ে। জানিনা এ গল্প প্রতিভার ব্যক্তিজীবনের প্রতিফলন কিনা-- মনে তো হয় তাইই। সত্যি বলতে কি, পরিবারে সমাজে সব থেকেও একলা কিংবা কিছু না থেকে একলা যেসব মানুষজন, যাঁদের একমাত্র পুঁজি ফেলে আসা দিনের স্মৃতি, অকারণ নোনা জল আর অজানার জন্য অপেক্ষা-- তাঁদের নিশ্চয়ই ছুঁয়ে যাবে এ গল্প। প্রতিভা যখন লেখেন, "ওকে বলি কি করে মায়ের জন্য যতটা, ততটাই আমি তো  নিজের জন্যও কাঁদছি। আমার জন্য রুদালি ভাড়া করার দরকার হয়না যেন।" চল্লিশোর্ধ আমার সঙ্গে ঠিক এই মুহূর্তেই গাঁটছড়া বাঁধা হয়ে যায় মাত্র দুদিন আগের অচেনা, অজানা প্রতিভার সঙ্গে, প্রতিভা সরকারের সঙ্গে।

  • ১৩ মে ২০২১ | ২০২ বার পঠিত
  • পছন্দ
    জমিয়ে রাখুন গ্রাহক পুনঃপ্রচার
  • কোনোরকম কর্পোরেট ফান্ডিং ছাড়া সম্পূর্ণরূপে জনতার শ্রম ও অর্থে পরিচালিত এই নন-প্রফিট এবং স্বাধীন উদ্যোগটিকে বাঁচিয়ে রাখতে
    গুরুচণ্ডা৯-র গ্রাহক হোন
    গুরুচণ্ডা৯তে প্রকাশিত লেখাগুলি হোয়াটসঅ্যাপে পেতে চাইলে এখানে ক্লিক করে আমাদের হোয়াটসঅ্যাপ গ্রুপে যুক্ত হোন। টেলিগ্রাম অ্যাপে পেতে চাইলে এখানে ক্লিক করে আমাদের টেলিগ্রাম চ্যানেলটির গ্রাহক হোন।
  • মতামত দিন
  • বিষয়বস্তু*:
  • প্রেক্ষা | 2402:3a80:a79:1a66:9111:2f87:f347:e0cc | ১৩ মে ২০২১ ২০:৫০105939
  • সুকন্যার লেখা পড়ে লেখিকার গল্প পড়ার  ইচ্ছে হচ্ছে... 

আমার গুরুবন্ধুদের জানানকরোনা
  • মতামত দিন
  • বিষয়বস্তু*:
  • কি, কেন, ইত্যাদি
  • বাজার অর্থনীতির ধরাবাঁধা খাদ্য-খাদক সম্পর্কের বাইরে বেরিয়ে এসে এমন এক আস্তানা বানাব আমরা, যেখানে ক্রমশ: মুছে যাবে লেখক ও পাঠকের বিস্তীর্ণ ব্যবধান। পাঠকই লেখক হবে, মিডিয়ার জগতে থাকবেনা কোন ব্যকরণশিক্ষক, ক্লাসরুমে থাকবেনা মিডিয়ার মাস্টারমশাইয়ের জন্য কোন বিশেষ প্ল্যাটফর্ম। এসব আদৌ হবে কিনা, গুরুচণ্ডালি টিকবে কিনা, সে পরের কথা, কিন্তু দু পা ফেলে দেখতে দোষ কী? ... আরও ...
  • আমাদের কথা
  • আপনি কি কম্পিউটার স্যাভি? সারাদিন মেশিনের সামনে বসে থেকে আপনার ঘাড়ে পিঠে কি স্পন্ডেলাইটিস আর চোখে পুরু অ্যান্টিগ্লেয়ার হাইপাওয়ার চশমা? এন্টার মেরে মেরে ডান হাতের কড়ি আঙুলে কি কড়া পড়ে গেছে? আপনি কি অন্তর্জালের গোলকধাঁধায় পথ হারাইয়াছেন? সাইট থেকে সাইটান্তরে বাঁদরলাফ দিয়ে দিয়ে আপনি কি ক্লান্ত? বিরাট অঙ্কের টেলিফোন বিল কি জীবন থেকে সব সুখ কেড়ে নিচ্ছে? আপনার দুশ্‌চিন্তার দিন শেষ হল। ... আরও ...
  • বুলবুলভাজা
  • এ হল ক্ষমতাহীনের মিডিয়া। গাঁয়ে মানেনা আপনি মোড়ল যখন নিজের ঢাক নিজে পেটায়, তখন তাকেই বলে হরিদাস পালের বুলবুলভাজা। পড়তে থাকুন রোজরোজ। দু-পয়সা দিতে পারেন আপনিও, কারণ ক্ষমতাহীন মানেই অক্ষম নয়। বুলবুলভাজায় বাছাই করা সম্পাদিত লেখা প্রকাশিত হয়। এখানে লেখা দিতে হলে লেখাটি ইমেইল করুন, বা, গুরুচন্ডা৯ ব্লগ (হরিদাস পাল) বা অন্য কোথাও লেখা থাকলে সেই ওয়েব ঠিকানা পাঠান (ইমেইল ঠিকানা পাতার নীচে আছে), অনুমোদিত এবং সম্পাদিত হলে লেখা এখানে প্রকাশিত হবে। ... আরও ...
  • হরিদাস পালেরা
  • এটি একটি খোলা পাতা, যাকে আমরা ব্লগ বলে থাকি। গুরুচন্ডালির সম্পাদকমন্ডলীর হস্তক্ষেপ ছাড়াই, স্বীকৃত ব্যবহারকারীরা এখানে নিজের লেখা লিখতে পারেন। সেটি গুরুচন্ডালি সাইটে দেখা যাবে। খুলে ফেলুন আপনার খেরোর খাতা, লিখতে থাকুন, বানান নিজের বাংলা ব্লগ, হয়ে উঠুন একমেবাদ্বিতীয়ম হরিদাস পাল, এ সুযোগ পাবেন না আর, দেখে যান নিজের চোখে...... আরও ...
  • টইপত্তর
  • নতুন কোনো বই পড়ছেন? সদ্য দেখা কোনো সিনেমা নিয়ে আলোচনার জায়গা খুঁজছেন? নতুন কোনো অ্যালবাম কানে লেগে আছে এখনও? সবাইকে জানান। এখনই। ভালো লাগলে হাত খুলে প্রশংসা করুন। খারাপ লাগলে চুটিয়ে গাল দিন। জ্ঞানের কথা বলার হলে গুরুগম্ভীর প্রবন্ধ ফাঁদুন। হাসুন কাঁদুন তক্কো করুন। স্রেফ এই কারণেই এই সাইটে আছে আমাদের বিভাগ টইপত্তর। ... আরও ...
  • ভাটিয়া৯
  • যে যা খুশি লিখবেন৷ লিখবেন এবং পোস্ট করবেন৷ তৎক্ষণাৎ তা উঠে যাবে এই পাতায়৷ এখানে এডিটিং এর রক্তচক্ষু নেই, সেন্সরশিপের ঝামেলা নেই৷ এখানে কোনো ভান নেই, সাজিয়ে গুছিয়ে লেখা তৈরি করার কোনো ঝকমারি নেই৷ সাজানো বাগান নয়, আসুন তৈরি করি ফুল ফল ও বুনো আগাছায় ভরে থাকা এক নিজস্ব চারণভূমি৷ আসুন, গড়ে তুলি এক আড়ালহীন কমিউনিটি ... আরও ...
যোগাযোগ করুন, লেখা পাঠান এই ঠিকানায় : [email protected]
মে ১৩, ২০১৪ থেকে সাইটটি বার পঠিত


পড়েই ক্ষান্ত দেবেন না। যা খুশি মতামত দিন