এই সাইটটি বার পঠিত
ভাটিয়ালি | টইপত্তর | বুলবুলভাজা | হরিদাস পাল | খেরোর খাতা | বই
  • খেরোর খাতা

  • বইমেলা এবং ১০%

    সৈকত বন্দ্যোপাধ্যায় লেখকের গ্রাহক হোন
    ১৭ জানুয়ারি ২০২৪ | ৩৬৪ বার পঠিত
  • বইয়ে ১০% ছাড় নিয়ে অনেক কথা চলছে। আমরা, গুরুচণ্ডা৯, গিল্ডের কোনো নির্দেশ পাইনি, ফলে সত্যাসত্য জানা নেই।  কিন্তু একটা কথা বলা যায়ই, যে, পাঠকদের কাছে এই ছাড়ট ভীষণ গুরুত্বপূর্ণ, তার কারণ বইয়ের দাম। আজকাল অনায়াসে একটা দেড়শো পাতার বইয়ের দাম হয় ৫০০ টাকা। ১০০০ টাকা বা তার অতিরিক্ত দামের বইও একেবারেই দুর্লভ না। সেখানে ১০% অতিরিক্ত ছাড় মানে ১০০ টাকা। সেটা পাঠকের কাছে একেবারেই কম কিছু না। পাঠকের এই দুর্বলতা কাজে লাগিয়ে যেটা করা হয়, সবাই করেন বলছিনা, কিন্তু অনেক ক্ষেত্রেই হয়, যে, বইয়ের দাম বহু বাড়িয়ে রেখে, তারপর ঘোষণা কর হয় ছাড়ের। যে বইয়ের ছাপার খরচ হয়তো ৭০ টাকা, প্রকাশক- ডিসট্রিবিউটার ধরে, তার দাম কখনই ১৫০ বা ২০০র বেশি হওয় উচিত না, সেই বইয়ের মূল্য হয়তো ধরা হয় ৭০০। এই বর্ধিত মূল্যের মধ্যে ওই ২০% ছাড় ধরা থাকে। অর্থাৎ, দাম বাড়িয়ে তারপর ক্রেতাকে ছাড় দেওয়া। এটা স্রেফ বইয়ে হয় তা নয়, সব প্রোডাক্টেই হয়। বই ছাপার সঙ্গে যুক্ত বলে, বই দেখে হিসেবটা করতে পারি, অন্যত্র পারিনা।

    এবার ব্যবসা এভাবেই চলে। তাতে আলাদা করে কিছু বলার নেই। কিন্তু বইকে এই অন্য পণ্যগুলোর মতো করে ফেলাতে আমার কিছু সমস্যা আছে। বই তো স্রেফ ব্যবসার কল না। যদিও ব্যাপারটা সেরকমই দাঁড়িয়েছে। ভূত-প্রেত-তন্ত্র-মন্ত্র-থ্রিলার এই মোড়কে যা খুশি একটা ছেপে বিজ্ঞাপন করে দিলেই বিক্রি হয়। পাঠক পড়ে হাত কামড়ান, কিন্তু বিক্রি তো হয়েই গেছে। সব ক্ষেত্রে কামড়ান তাও না। রুচিটাই তো ওইভাবে তৈরি হচ্ছে। বাংলার সর্বাধিক পঠিত সাহিত্যপত্রিকাই তো এখন লাইফ-স্টাইল আর কারেন্ট অ্যাফেয়ার্সের পত্রিক হয়ে গেছে, সেদিন দেখলাম রামমন্দিরের পক্ষে প্রচারও করছে। 

    যাহোক, সেটা পয়েন্ট না, বিষয়টা হল, যেনতেন প্রকারে বিক্রি আর মাত্রাতিরিক্ত দাম রাখাটা এখন অভ্যাসে পরিণত হয়েছে। ব্যবসায় যা হয়।  গোড়া থেকেই এইটা লক্ষ্য করছি বলেই, বইকে স্রেফ ব্যবসায় আমরা পরিণত করিনি। বিক্রি করে খরচা নিশ্চয়ই তুলি। কিন্তু মুনাফাটা লক্ষ্য না। তাই গুরুচণ্ডা৯র বইয়ের দাম কম থাকে। ছাপার খরচের সামান্য উপরে, যেমনটা হবার কথা। সেইজন্য লক্ষ্য করেছি, আমাদের বইয়ে ছাড়ের খুব বেশি চাহিদা নেই। খুবই সহজবোধ্য, যে, একটা ৭০ বা ১০০টাকা বইয়ে কীইবা ১০%, কীইবা ২০%। বেশি পেলে কেউই না করেননা, কেনই বা করবেন, কিন্তু চাহিদা তেমন নেই। আমরাও, ব্যবস্থাটা এমন চাই, যেখানে বইয়ের দাম এমনিই যতটা নামানো যায় ততটা নিচেই থাকবে। অকারণে দাম বাড়িয়ে ছাড় দেবার কোনো মানে নেই। নিয়মিতভাবে ২০% ছাড় দিতে পারছেন মানে আপনি দামটাই আপনি অতটা কমিয়ে রাখতে পারেন। বই স্রেফ ব্যবসা নয়, তাই দামকে এইরকম একটা জায়গায় নিয়ে যাবার একটা সংস্কৃতি আমরা তৈরি করতে চাই। নিজেরা করিই। পাঠকরাই সাক্ষী। তবে সংস্কৃতিটা তৈরি হবে কিনা, সে বলা খুব কঠিন। হলে ভালই হয়। 
    পুনঃপ্রকাশ সম্পর্কিত নীতিঃ এই লেখাটি ছাপা, ডিজিটাল, দৃশ্য, শ্রাব্য, বা অন্য যেকোনো মাধ্যমে আংশিক বা সম্পূর্ণ ভাবে প্রতিলিপিকরণ বা অন্যত্র প্রকাশের জন্য গুরুচণ্ডা৯র অনুমতি বাধ্যতামূলক। লেখক চাইলে অন্যত্র প্রকাশ করতে পারেন, সেক্ষেত্রে গুরুচণ্ডা৯র উল্লেখ প্রত্যাশিত।
  • মতামত দিন
  • বিষয়বস্তু*:
  • guru | 103.211.20.55 | ১৭ জানুয়ারি ২০২৪ ১২:২৪527697
  • পার্থবাবু আর আপনারা কি ১৯ এ আসবেন গুরু স্টলে ??
  • জনস্বার্থে | 198.16.74.45 | ১৭ জানুয়ারি ২০২৪ ১৪:৪০527702
  • ( ... এলে কল্লা সামলে ... )
    guru নিকধারী ইসলাম-এক্সট্রিমিস্ট-সিমপ্যাথাইজার ও জঙ্গী-থিয়োরাইজার-এর থেকে সাবধান।
    স্টলে এসে নিজ নিজ প্রকৃত পরিচয় প্রদান ও সাইটে কোন নিক এ লেখেন সেই প্রসঙ্গে কাছাখোলা আলোচনা না করার সাবধানবাণী সেঁটে দেওয়া হল।
  • মতামত দিন
  • বিষয়বস্তু*:
  • কি, কেন, ইত্যাদি
  • বাজার অর্থনীতির ধরাবাঁধা খাদ্য-খাদক সম্পর্কের বাইরে বেরিয়ে এসে এমন এক আস্তানা বানাব আমরা, যেখানে ক্রমশ: মুছে যাবে লেখক ও পাঠকের বিস্তীর্ণ ব্যবধান। পাঠকই লেখক হবে, মিডিয়ার জগতে থাকবেনা কোন ব্যকরণশিক্ষক, ক্লাসরুমে থাকবেনা মিডিয়ার মাস্টারমশাইয়ের জন্য কোন বিশেষ প্ল্যাটফর্ম। এসব আদৌ হবে কিনা, গুরুচণ্ডালি টিকবে কিনা, সে পরের কথা, কিন্তু দু পা ফেলে দেখতে দোষ কী? ... আরও ...
  • আমাদের কথা
  • আপনি কি কম্পিউটার স্যাভি? সারাদিন মেশিনের সামনে বসে থেকে আপনার ঘাড়ে পিঠে কি স্পন্ডেলাইটিস আর চোখে পুরু অ্যান্টিগ্লেয়ার হাইপাওয়ার চশমা? এন্টার মেরে মেরে ডান হাতের কড়ি আঙুলে কি কড়া পড়ে গেছে? আপনি কি অন্তর্জালের গোলকধাঁধায় পথ হারাইয়াছেন? সাইট থেকে সাইটান্তরে বাঁদরলাফ দিয়ে দিয়ে আপনি কি ক্লান্ত? বিরাট অঙ্কের টেলিফোন বিল কি জীবন থেকে সব সুখ কেড়ে নিচ্ছে? আপনার দুশ্‌চিন্তার দিন শেষ হল। ... আরও ...
  • বুলবুলভাজা
  • এ হল ক্ষমতাহীনের মিডিয়া। গাঁয়ে মানেনা আপনি মোড়ল যখন নিজের ঢাক নিজে পেটায়, তখন তাকেই বলে হরিদাস পালের বুলবুলভাজা। পড়তে থাকুন রোজরোজ। দু-পয়সা দিতে পারেন আপনিও, কারণ ক্ষমতাহীন মানেই অক্ষম নয়। বুলবুলভাজায় বাছাই করা সম্পাদিত লেখা প্রকাশিত হয়। এখানে লেখা দিতে হলে লেখাটি ইমেইল করুন, বা, গুরুচন্ডা৯ ব্লগ (হরিদাস পাল) বা অন্য কোথাও লেখা থাকলে সেই ওয়েব ঠিকানা পাঠান (ইমেইল ঠিকানা পাতার নীচে আছে), অনুমোদিত এবং সম্পাদিত হলে লেখা এখানে প্রকাশিত হবে। ... আরও ...
  • হরিদাস পালেরা
  • এটি একটি খোলা পাতা, যাকে আমরা ব্লগ বলে থাকি। গুরুচন্ডালির সম্পাদকমন্ডলীর হস্তক্ষেপ ছাড়াই, স্বীকৃত ব্যবহারকারীরা এখানে নিজের লেখা লিখতে পারেন। সেটি গুরুচন্ডালি সাইটে দেখা যাবে। খুলে ফেলুন আপনার নিজের বাংলা ব্লগ, হয়ে উঠুন একমেবাদ্বিতীয়ম হরিদাস পাল, এ সুযোগ পাবেন না আর, দেখে যান নিজের চোখে...... আরও ...
  • টইপত্তর
  • নতুন কোনো বই পড়ছেন? সদ্য দেখা কোনো সিনেমা নিয়ে আলোচনার জায়গা খুঁজছেন? নতুন কোনো অ্যালবাম কানে লেগে আছে এখনও? সবাইকে জানান। এখনই। ভালো লাগলে হাত খুলে প্রশংসা করুন। খারাপ লাগলে চুটিয়ে গাল দিন। জ্ঞানের কথা বলার হলে গুরুগম্ভীর প্রবন্ধ ফাঁদুন। হাসুন কাঁদুন তক্কো করুন। স্রেফ এই কারণেই এই সাইটে আছে আমাদের বিভাগ টইপত্তর। ... আরও ...
  • ভাটিয়া৯
  • যে যা খুশি লিখবেন৷ লিখবেন এবং পোস্ট করবেন৷ তৎক্ষণাৎ তা উঠে যাবে এই পাতায়৷ এখানে এডিটিং এর রক্তচক্ষু নেই, সেন্সরশিপের ঝামেলা নেই৷ এখানে কোনো ভান নেই, সাজিয়ে গুছিয়ে লেখা তৈরি করার কোনো ঝকমারি নেই৷ সাজানো বাগান নয়, আসুন তৈরি করি ফুল ফল ও বুনো আগাছায় ভরে থাকা এক নিজস্ব চারণভূমি৷ আসুন, গড়ে তুলি এক আড়ালহীন কমিউনিটি ... আরও ...
গুরুচণ্ডা৯-র সম্পাদিত বিভাগের যে কোনো লেখা অথবা লেখার অংশবিশেষ অন্যত্র প্রকাশ করার আগে গুরুচণ্ডা৯-র লিখিত অনুমতি নেওয়া আবশ্যক। অসম্পাদিত বিভাগের লেখা প্রকাশের সময় গুরুতে প্রকাশের উল্লেখ আমরা পারস্পরিক সৌজন্যের প্রকাশ হিসেবে অনুরোধ করি। যোগাযোগ করুন, লেখা পাঠান এই ঠিকানায় : [email protected]


মে ১৩, ২০১৪ থেকে সাইটটি বার পঠিত
পড়েই ক্ষান্ত দেবেন না। না ঘাবড়ে প্রতিক্রিয়া দিন