এই সাইটটি বার পঠিত
ভাটিয়ালি | টইপত্তর | বুলবুলভাজা | হরিদাস পাল | খেরোর খাতা | বই
  • খেরোর খাতা

  • বাংলা বোর্ড  ও পাঠক্রম নিয়ে দু এক ছত্তর

    Eman Bhasha লেখকের গ্রাহক হোন
    ১২ মার্চ ২০২৩ | ৫১৩ বার পঠিত | রেটিং ৫ (২ জন)
  • আমার ৪৫ বছর বয়স লেগেছে, রামশরণ শর্মা পড়ে জানতে, 'ভারত' নামটা এসেছে ভরত নামে এক জনজাতির নাম থেকে। ভরত নামে কোনো রাজার নাম থেকে নয়।
    এটা এখন ষষ্ঠ শ্রেণির বইই শেখায়।
    অঙ্ক শেখানোর পদ্ধতি বেশ আধুনিক।
    বর্তমান বাংলা বোর্ডের পাঠক্রম যথেষ্ট আধুনিক।
    যদিও ইতিহাসকে আরেকটু আকর্ষণীয় করা দরকার। 
    বড্ড বেশি গুঁজে দেওয়া তথ্য।
    অতিথি শব্দের সংস্কৃত 'গোঘ্ন' এটা জেনেছি ৩০ বছর বয়সে কৃষ্ণনগর সরকারি কলেজের অধ্যক্ষ প্রদীপ মজুমদারের সঙ্গে আলোচনায়। 'গোঘ্ন' মানে গো হনন করা হয় যার জন্য। অর্থাৎ তথাকথিত আর্য সমাজে গোরু খাওয়া ছিল।
    এইগুলো ইতিহাস বইয়ে লিখলে তো গোসন্ত্রাসীদের কাজ কঠিন হয়ে যেত।
    শিবাজির মন্ত্রী গোলন্দাজ বাহিনীর প্রধান যে 'মুসলিম' তাঁদের নামাজ পড়ার জন্য মসজিদ নির্মাণ করেছিলেন শিবাজি এটা লিখলে কি ক্ষতি হতো।
    অথচ তথাকথিত বামপন্থী সিলেবাস নির্মাতারা ৩৪ বছরে এ-কাজ করেনি।
    এখন এঁরাও করছেন না।
    শিবাজির ব্যক্তিগত দেহরক্ষী যাঁর সাহায্যে শিবাজি ফলের ডুলিতে পালান তিনি যে 'মুসলিম' এটা জানানোয় গোবিন্দ পানসারে খুন হয়ে গেলেন।
    পশ্চিমবঙ্গে তো সে ভয় ছিল না।
    আওরঙ্গজেব বহু মন্দির নির্মাণে অর্থ দান করেছিলেন, সবচেয়ে বেশি 'হিন্দু' উঁচু পদের আমলা তাঁর আমলেই, পৃথিবীর সবচেয়ে ধনী ছিল ভআরত-- এটুকু না জানানোর কারণ কী?
    উজ্জয়িনীর মহাকাল মন্দিরের দলিল দেখলেই জানা যাবে আওরঙ্গজেব কী সাহায্য করেছেন। যোগীর লোকজন সেগুলো নিতে গিয়েছিলেন সন্ন্যাসীরা দেননি।
    উজ্জয়িনীর মহাকাল মন্দিরে সারাদিন গাওয়া ঘিয়ের প্রদীপ জ্বলে। সেই ঘি দেয় সরকার।
    এটা আওরঙ্গজেবের ফরমানে হয়েছে।
    লেখা যেতো না?
    রাণা প্রতাপের পাঁচহাজারি ঘোড়সওয়ার বাহিনীর সেনাপতি আফগান হাকিম শূর, নামাজ পড়ে যুদ্ধে যেতেন। আর তাঁর বিরুদ্ধে আকবরের হয়ে লড়তে আসতেন সেনাপতি মানসিংহে। পূজা করে।
    এগুলো ধর্ম নয়, ক্ষমতার লড়াই ছইল-- লিখলে কি ক্ষতি হতো?
    আকবরের পক্ষে ছিলেন প্রতাপের বৈমাত্রেয় ভাই শক্ত সিংহ।
    কারণ শক্ত সিংহকে সম্পত্তি থেকে বঞ্চিত করেছিলেন প্রতাপ সিংহ।
    আকবরকে রাজপুতানায় ডেকে আনেন এক রাজপুত রাজা। কারণ, প্রতাপ সিংহ তাঁর রাজ্য দখল করে নিচ্ছিলেন।
    ক্ষমতার লড়াই।
    আদর্শ বা ধর্মের নয়।
    এটুকু বোঝানো হয়নি কেন?
    আমিও তো প্রতাপ ও শিবাজি ভক্ত ছিলাম প্রবল ইতিহাস পড়েই। 
     
    উচ্চ মাধ্যমিক বাংলা পাঠক্রম ভালো লেখা। কিন্তু সেটা উচ্চ মাধ্যমিক মানের নয়, স্নাতক সাম্মানিক/স্নাতকোত্তরে পড়ালে এই ঠিক হতো।
    অনাবশ্যক জটিল। বিশেষত সাহিত্য সংস্কৃতির ইতিহাস।
    এত কম সময়ে পড়ানো অসম্ভব।
     
    আর একটা কথা:
    বাংলা মাধ্যম নাকি আজ অচল?
     
    ২০২০ তে সারা দেশে গেট পরীক্ষার প্রথম স্থানাধিকারী বর্ধমান মিউনিসিপ্যাল স্কুলের ছাত্র।
    এটি বাংলা মাধ্যম।
    এবং আমিও এখানে পড়ার সুযোগ পেয়েছিলাম
     
    ####
    পুনঃপ্রকাশ সম্পর্কিত নীতিঃ এই লেখাটি ছাপা, ডিজিটাল, দৃশ্য, শ্রাব্য, বা অন্য যেকোনো মাধ্যমে আংশিক বা সম্পূর্ণ ভাবে প্রতিলিপিকরণ বা অন্যত্র প্রকাশের জন্য গুরুচণ্ডা৯র অনুমতি বাধ্যতামূলক। লেখক চাইলে অন্যত্র প্রকাশ করতে পারেন, সেক্ষেত্রে গুরুচণ্ডা৯র উল্লেখ প্রত্যাশিত।
  • মতামত দিন
  • বিষয়বস্তু*:
  • সঞ্জীব দেবলস্কর | 117.237.241.128 | ১৩ মার্চ ২০২৩ ১৮:০৬517357
  • এসব জেনে আর কী হবে?  মেজরিটি এখন না জানাদের গাজোয়ারিতে ভেসে গেছে। ইতিহাস যে আরও ভয়ঙ্কর ভাবে পুনর্লিখিত হচ্ছে।
  • মতামত দিন
  • বিষয়বস্তু*:
  • কি, কেন, ইত্যাদি
  • বাজার অর্থনীতির ধরাবাঁধা খাদ্য-খাদক সম্পর্কের বাইরে বেরিয়ে এসে এমন এক আস্তানা বানাব আমরা, যেখানে ক্রমশ: মুছে যাবে লেখক ও পাঠকের বিস্তীর্ণ ব্যবধান। পাঠকই লেখক হবে, মিডিয়ার জগতে থাকবেনা কোন ব্যকরণশিক্ষক, ক্লাসরুমে থাকবেনা মিডিয়ার মাস্টারমশাইয়ের জন্য কোন বিশেষ প্ল্যাটফর্ম। এসব আদৌ হবে কিনা, গুরুচণ্ডালি টিকবে কিনা, সে পরের কথা, কিন্তু দু পা ফেলে দেখতে দোষ কী? ... আরও ...
  • আমাদের কথা
  • আপনি কি কম্পিউটার স্যাভি? সারাদিন মেশিনের সামনে বসে থেকে আপনার ঘাড়ে পিঠে কি স্পন্ডেলাইটিস আর চোখে পুরু অ্যান্টিগ্লেয়ার হাইপাওয়ার চশমা? এন্টার মেরে মেরে ডান হাতের কড়ি আঙুলে কি কড়া পড়ে গেছে? আপনি কি অন্তর্জালের গোলকধাঁধায় পথ হারাইয়াছেন? সাইট থেকে সাইটান্তরে বাঁদরলাফ দিয়ে দিয়ে আপনি কি ক্লান্ত? বিরাট অঙ্কের টেলিফোন বিল কি জীবন থেকে সব সুখ কেড়ে নিচ্ছে? আপনার দুশ্‌চিন্তার দিন শেষ হল। ... আরও ...
  • বুলবুলভাজা
  • এ হল ক্ষমতাহীনের মিডিয়া। গাঁয়ে মানেনা আপনি মোড়ল যখন নিজের ঢাক নিজে পেটায়, তখন তাকেই বলে হরিদাস পালের বুলবুলভাজা। পড়তে থাকুন রোজরোজ। দু-পয়সা দিতে পারেন আপনিও, কারণ ক্ষমতাহীন মানেই অক্ষম নয়। বুলবুলভাজায় বাছাই করা সম্পাদিত লেখা প্রকাশিত হয়। এখানে লেখা দিতে হলে লেখাটি ইমেইল করুন, বা, গুরুচন্ডা৯ ব্লগ (হরিদাস পাল) বা অন্য কোথাও লেখা থাকলে সেই ওয়েব ঠিকানা পাঠান (ইমেইল ঠিকানা পাতার নীচে আছে), অনুমোদিত এবং সম্পাদিত হলে লেখা এখানে প্রকাশিত হবে। ... আরও ...
  • হরিদাস পালেরা
  • এটি একটি খোলা পাতা, যাকে আমরা ব্লগ বলে থাকি। গুরুচন্ডালির সম্পাদকমন্ডলীর হস্তক্ষেপ ছাড়াই, স্বীকৃত ব্যবহারকারীরা এখানে নিজের লেখা লিখতে পারেন। সেটি গুরুচন্ডালি সাইটে দেখা যাবে। খুলে ফেলুন আপনার নিজের বাংলা ব্লগ, হয়ে উঠুন একমেবাদ্বিতীয়ম হরিদাস পাল, এ সুযোগ পাবেন না আর, দেখে যান নিজের চোখে...... আরও ...
  • টইপত্তর
  • নতুন কোনো বই পড়ছেন? সদ্য দেখা কোনো সিনেমা নিয়ে আলোচনার জায়গা খুঁজছেন? নতুন কোনো অ্যালবাম কানে লেগে আছে এখনও? সবাইকে জানান। এখনই। ভালো লাগলে হাত খুলে প্রশংসা করুন। খারাপ লাগলে চুটিয়ে গাল দিন। জ্ঞানের কথা বলার হলে গুরুগম্ভীর প্রবন্ধ ফাঁদুন। হাসুন কাঁদুন তক্কো করুন। স্রেফ এই কারণেই এই সাইটে আছে আমাদের বিভাগ টইপত্তর। ... আরও ...
  • ভাটিয়া৯
  • যে যা খুশি লিখবেন৷ লিখবেন এবং পোস্ট করবেন৷ তৎক্ষণাৎ তা উঠে যাবে এই পাতায়৷ এখানে এডিটিং এর রক্তচক্ষু নেই, সেন্সরশিপের ঝামেলা নেই৷ এখানে কোনো ভান নেই, সাজিয়ে গুছিয়ে লেখা তৈরি করার কোনো ঝকমারি নেই৷ সাজানো বাগান নয়, আসুন তৈরি করি ফুল ফল ও বুনো আগাছায় ভরে থাকা এক নিজস্ব চারণভূমি৷ আসুন, গড়ে তুলি এক আড়ালহীন কমিউনিটি ... আরও ...
গুরুচণ্ডা৯-র সম্পাদিত বিভাগের যে কোনো লেখা অথবা লেখার অংশবিশেষ অন্যত্র প্রকাশ করার আগে গুরুচণ্ডা৯-র লিখিত অনুমতি নেওয়া আবশ্যক। অসম্পাদিত বিভাগের লেখা প্রকাশের সময় গুরুতে প্রকাশের উল্লেখ আমরা পারস্পরিক সৌজন্যের প্রকাশ হিসেবে অনুরোধ করি। যোগাযোগ করুন, লেখা পাঠান এই ঠিকানায় : [email protected]


মে ১৩, ২০১৪ থেকে সাইটটি বার পঠিত
পড়েই ক্ষান্ত দেবেন না। চটপট মতামত দিন