বার পঠিত
ভাটিয়ালি | টইপত্তর | বুলবুলভাজা | হরিদাস পাল | খেরোর খাতা | বই
  • টইপত্তর  অন্যান্য

  • ব্যাংদি প্রৌঢ় সংবাদ

    Abhyu
    অন্যান্য | ২৯ জানুয়ারি ২০১৪ | ৬৯৫ বার পঠিত
  • মতামত দিন
  • বিষয়বস্তু*:
  • Abhyu | 85.137.12.210 | ২৯ জানুয়ারি ২০১৪ ২০:২৭628122
  • অনেকদিন টই খুলি না, অভ্যেসটা বজায় রাখা উচিত।
  • Abhyu | 85.137.12.210 | ২৯ জানুয়ারি ২০১৪ ২০:২৭628133
  • ব্যাঙদি : আচ্ছা আমি একটা কেলো করেছি। প্রেশার কুকারে দুই কাপ মুসুর ডাল ভিজিয়ে রেখে ভুলে গেছিলাম। তারা প্রায় ছত্রিশ ঘন্টা ধরে ভিজেছেন, বোধহয় গেঁজেওছেন। আজ ভোরবেলা ঘুম চোখে মনে পড়ায় তড়িঘড়ি সেটা ফেলে না দিয়ে সেদ্ধ করে দিয়েছি। সেদ্ধ তো ঠিক্ঠাক হয়েছে, মানে রং দেখে মনে হচ্ছে, চেহারা নর্মাল সেদ্ধ ডালের থেকে একটুও টসকায় নি, কিন্তু কেমন একটা গন্ধ বেরোচ্ছে। খেয়ে দেখলাম, খেতেও নর্মাল সেদ্ধ ডালের মতই। সব শুদ্ধু ফেলে দিয়ে বাড়ি থেকে বেরোব কি? নাকি কাঁচা আম আছে, তেঁতুল আছে, এইসব দিয়ে টক ডাল রাঁধার চেষ্টা করব? (বাড়িতে মেট্রোজিল-ও আছে)
    মেকাপমাস্টাররা আর স্বাস্থ্যদিদিমণিরা চটপট বাতলাও।
    ভয়ে ভয়ে শুধাই, উহা কি ভয়ঙ্কর বিষে পরিণত হইয়াছে? ভয়ঙ্কর বিষে পরিণত হইয়া থাকিলে উহার অন্য উপযোগিতাও আছে।

    ঝিকি : যার ওপর বিষ প্রয়োগ করতে চাও, করেই ফেল .... :))))

    ব্যাঙদি : না না প্রয়োগ করতে চাই না। আবার আনন্দবাজারে এই হেডলাইনটাও দেখতে চাই না - বিষডাল খেয়ে প্রৌঢ়ের মৃত্যু। এমনিতেই আজ সকাল থেকে (তাও আবার বিবার প্রাক্কালে) একে অপরকে প্রবলভাবে আত্মহত্যায় প্ররোচনা দেওয়া চলছে। তারউপর রাত্তিরে বিষডাল খাইয়ে কেন জেলে যাওয়ার রাস্তাটায় কেনো কুসুম বিছাই?

    একক : প্রৌঢ় খামোখা বিড়াল খেতে গ্যালো ক্যানো ? :O

    ব্যাঙদি : এককের বিড়াল খাওয়া প্রৌঢ়ের পোস্টটা দেখে খুব হাসলাম।
    প্রৌঢ়কে আজ সকালে টাটা মোটরসের এমডির উদাহরণ দেখিয়ে উজ্জীবিত করার চেষ্টা করা হয়েছে। বলা হয়েছে থাইল্যান্ডের পুলিশের উচিৎ জনস্বার্থে এমডির বউয়ের তিনপাতার চিঠিটা ফেসবুকে রাখা। যা পড়ে, বিড়ালও গলে না এমন জানলা দিয়ে হাঁচোর্পাঁচোর করে গলে অত বড় একটা লোক তেইশতলা থেকে লাফ দেয়।
    এই উদাহরণ আমাকে দিতে হত না, যদি না আমাকে সুনন্দা পুষ্করের উদাহরণ দিয়ে উজ্জীবিত করার চেষ্টা করা হত। দোষের মধ্যে আমি বলেছিলাম, যে বাড়ি রঙ হলে মহিলা গিয়ে ফাইভস্টার হোটেলে উঠতে পারত, আর আমকে রংমিস্ত্রিদের ব্যাগার খাটতে হয়। তার উত্তরে আমাকে বলা হয়েছে, আমাকে লীলার দামিতম ঘর বুক করে দেওয়া হবে, যদি আমি গ্যারান্টি দিই যে জ্যান্ত ঐ ঘর থেকে বেরোব না।
    আমাকে এমনকি কানিমোজির উদাহরণ দিয়েও হ্যাটা করা হয়েছে।
    কানিমোজি যখন জেলে গেল, একদিন টিভিতে দেখাল যে তার বর আর ছেলে জেলে দেখা করতে গেছে, সেই দেখে সুশিক্ষে দেওয়ার জন্য বললাম, দেখেছ বউকে কত্তো ভালোবাসে, বাড়ির রান্না নিয়ে জেলে বৌয়ের সাথে নিয়মিত দেখা করতে যায়, আর এই তুমি, এই যে আমি কাঁধের ব্যথায় কোঁকাচ্ছি, সামান্য ভোলিনির টিউবটাও কিনে আন না।
    উত্তরে শুনতে হল, তুমি আমাকে ছশোকোটি টাকা এনে দাও, আমি রোজ কয়েক ঘন্টা করে জেলের সামনে দাঁড়িয়ে থাকব।

    lcm : সে কি, টাটা মোতরসে কি হইল। আরে অত খবর রাখা যায় নাকি! খাবার তো নয় যে ফ্রিজে ঢুকিয়ে দিলুম।

    ব্যাঙদি : আমি সত্যিই ঐ তিনপাতার চিঠিটা পড়তে চাই। তাতে কী এমন ছিল যে সেই চিঠি পড়ে তেইশতলা থেকে ঝাঁপ দিতে সাধ যায়? আমাদের বাড়ির প্রৌঢ়টি স্পেকুলেট করেছেন যে আলাপ হওয়ার আগে থেকে ঝাঁপানোর দিন অব্দি টাটা মোটরসের এমডি কী কী ভুল করেছেন এবং বলেছেন, তারই খতিয়ান ছিল টাইমস্ট্যাম্পসমেত।

    ন্যাড়া : আলাপের দুদিনের মাথায় ঝাঁপ দিয়েছে নাকি? নইলে তিন পাতায় তো কুলোবে না ভাই, তিন লরি চিঠি লাগবে।

    হুতো :
    প্রাণেতে চরস দিও বিষডালে নুন
    রহস্য কাহিনীতে লিখে দিও খুন
    গুটখার থুতু দিও দেওয়ালের গায়
    মদ্যের ভাগ দিও খাদ্যের গুণ।
    কলিকাতে ধোঁয়া দাও পানে দাও চুন
    কোজাগরী রাত আর আসবাবে ঘুন
    পোকাদের কলোনীতে অলিগলি ধাঁধা
    বসন্তে বইমেলা ভাষাতে জুনুন।
  • সিকি | ২৯ জানুয়ারি ২০১৪ ২১:৫২628139
  • বেড়ে হচ্ছে। চলুক।
  • PM | 71.90.51.225 | ২৯ জানুয়ারি ২০১৪ ২২:৫৯628140
  • ব্যাং আগে বললে আমি গিয়ে চিঠিটা ফোটোকপি করে আনতাম। আমাদের পাড়ার হোটেলেই হয়েছে কান্ডটা
  • Abhyu | 85.137.10.28 | ০২ ফেব্রুয়ারি ২০১৪ ২০:৪৯628141
  • ব্যাংদি আরেকটু লেখো। উইকেন্ডে খোলাখুলি মতবিনিময় হয় নি কি একেবারেই?
  • Lama | 113.249.36.93 | ০২ ফেব্রুয়ারি ২০১৪ ২১:০১628142
  • কিন্তু উক্ত প্রৌঢ় তো আমাদেরই ব্যাচমেট যতদূর জানি (বা দুএক ব্যাচ আগের)। তাহলে আমিও কি প্রৌঢ়িয়ে গেলুম?
  • Abhyu | 85.137.10.28 | ০২ ফেব্রুয়ারি ২০১৪ ২১:১১628143
  • আহা উনি জ্ঞানে অভিজ্ঞতায় প্রৌঢ়, বয়সে না, আর মনে তো চিরকিশোর।
  • ? | 127.194.192.85 | ০২ ফেব্রুয়ারি ২০১৪ ২১:২৪628144
  • কোন জ্ঞানে, কিসের অভিজ্ঞতায়?
  • Abhyu | 85.137.0.58 | ০৮ ফেব্রুয়ারি ২০১৪ ১১:২৭628145
  • এটাও তুলে দিলাম।
  • Lama | 113.249.36.243 | ০৮ ফেব্রুয়ারি ২০১৪ ১৯:৪৪628123
  • প্রৌঢ়কে অনেকদিন ফোনানো হয়নি। তার বউ যেন তাকে জানিয়ে দেয় যে আমি শিগগিরি ফোন করব
  • byaang | 132.167.88.110 | ০৮ ফেব্রুয়ারি ২০১৪ ১৯:৪৮628124
  • হ্যাঁ ফোন করে একটু মনোবল দিস তাকে। কাল রাত্তিরে তার বৌ তাকে দেখিয়ে দেখিয়ে তার পাশে বসে ইউটিউবে "হাউ টু কিল ইয়োর হাজব্যান্ড" ভিডিও সার্চ করেছে। তারপর থেকেই প্রৌঢ় কেমন যেন ম্রিয়মাণমতন হয়ে পড়েছে।
  • jhiki | 149.194.243.61 | ০৮ ফেব্রুয়ারি ২০১৪ ২২:৩৮628125
  • কিন্তু সেই ডালের শেষমেষ কি হল????
  • byaang | 132.167.88.110 | ০৮ ফেব্রুয়ারি ২০১৪ ২২:৪০628126
  • ঝিকি, আজ সকালের ভাটে আছে তো সেই ডালের পরিণতির কথা।
  • jhiki | 149.194.243.61 | ০৮ ফেব্রুয়ারি ২০১৪ ২২:৪৮628127
  • আমি কাল দুপুর থেকে আর ভাট পড়িনি, পিছিয়ে পড়ে দেখছি কী লিখেছ ঃ)
  • jhiki | 149.194.243.61 | ০৮ ফেব্রুয়ারি ২০১৪ ২৩:০৪628128
  • পড়লাম ঃ)
  • Abhyu | 138.192.7.51 | ০৯ ফেব্রুয়ারি ২০১৪ ০১:২৭628129
  • ব্যাঙদি : প্রৌঢ় এপাড়ার কবিদের উপর বিষম চটেছেন। অবিশ্যি প্লুরাল বলাটা ভুল হল, সিঙ্গুলার হবে। উনি চটেছেন কবিহুতোর উপর। বলেছেন "কেউ কাউকে খুন করার জন্য নানারকম মতলব আঁটছে আর তাই দেখে কবি বিগলিত হয়ে কবিতা " বলেটলে আবার মুখ ভেটকেছেন। না না, খুনির উদ্দেশ্যে ভেটকান নি নিশ্চয়ই, কবির উদ্দেশ্যেই ভেটকে থাকবেন। খুনির তো সেরকমটাই মনে হয়েছে।
    সেই ডাল তো বাড়ি এসেই গাদা খানেক শুকনো লঙ্কা আর আধ কৌটো পাঁচ ফোড়ণ দিয়ে অনেকক্ষন ধরে ভাজলাম, যতক্ষণ না আচারের গন্ধ বেরোল, ততক্ষণ ভেজেই গেলাম। তারপর বিভীষণ বাড়ি ফিরলে তাকে দেখালাম, (জানিই তো সে ভাট পড়ে থাকবে) দেখিয়ে জিগালাম, "খাবে না ফেলে দেব?" সে সাহস করে "হ্যাঁ"ও বলতে পারল না, “না”-ও বলতে পারল না। দেখে মায়া হল। তখন তাকে নিশ্চিন্ত করতে বললাম, "তাহলে ফেলে দিচ্ছি", সে তাড়াতাড়ি "ওকে" বলে দিয়ে চাদরমুড়ি দিয়ে শুয়ে পড়ল। তারপর সেই ডাল থেকে পাঁচফোড়ণগুলো খুঁটে খুঁটে তুলে ফেলে দিয়ে নুন হলুদ দিয়ে আচ্ছাসে ফুটিয়ে উপরে কাঁচাপেঁয়াজ আর কাঁচালঙ্কা ভাসিয়ে, তাকে ধাক্কা মেরে জাগিয়ে ডালটা দেখিয়ে বললাম, "মুসুর ডালটা ফেলে দিয়ে, অড়হরডাল বানালাম, এটা খাওয়া যাবে?" সে ভারি নিশ্চিন্তি হয়ে ঘাড় হেলিয়ে হ্যাঁ বুঝিয়ে ভাত মেখে খেয়ে নিল, আমিও খেয়ে নিলাম। পেটখারাপও হয় নি, কোষ্ঠকাঠিন্যও হয় নি। এক হপ্তা হয়ে গেল।

    কুমুদি : অ ব্যাং অত পাঁচ্ফোড়ন বাছলে ক্যামনে?

    ব্যাঙদি : পাঁচফোড়ন কি ওরকম বেছে বেছে বাছি নাকি আমি কুমুদি? আমি তো চামচে করে পাঁচফোড়ন লাগা ডালের জায়গাগুলো তুলে তুলে ফেলে দিই, তাড়াতাড়িও হয়, নিখুঁতও হয়।

    অভ্যু : ব্যাংদি, "বেছে বেছে বাছা"টা কি জিনিস?

    ব্যাঙদি : মানে আঙুলে করে বাছা।

    কুমুদি : আর বিভী শুধু ডাল দিয়ে ভাত খেল?? ডালটা একটু ইয়ে ছিল কিনা, তাই জিগাচ্ছি।

    ব্যাঙদি : কুমুদি, শুধু ডাল দিয়ে খাবে কেন, আমি কি অতই নিষ্ঠুর? সঙ্গে চিকেন অ্যাডোবো আর আলুপেঁয়াজকলি ভাজাও তো ছিল। আর ছিল আলুগাজরমটরশুঁটিডিমের ভুর্জি।
  • Abhyu | 138.192.7.51 | ০৯ ফেব্রুয়ারি ২০১৪ ০১:২৮628130
  • সোসেন : উপরে ছানাবড়ার ছবি ।
    "ছড়িয়ে লাট করেছিস তো! কি খারাপ দেখতে হয়েছে রে! ভিতরগুলো ক্যাতকেতে, বাইরে গুলো শক্ত ঝামা। যাসসেতাই। কোনো কম্মের নোস।"
    আজ অব্দি আমি ফেসবুকে কোনো ছবির নিচে এবম্বিধ কমেন্ট দেখি নাই।

    ব্যাঙদি : সে তো আমি অর্কুটের জমানায় এক কলেজের বন্ধুর জন্মদিনে তার পাতায় লিখে এসেছিলাম - গঙ্গাজল, সাদা রজনীগন্ধা, সবুজ তুলসিপাতা, অগুরু, সাদা খই।
    সে তড়িঘড়ি নীচে লিখেছিল - ওরে আমি এখনো মরি নি রে, আজ আমার জন্মদিন।
    সেই কমেন্তের পরে যারা তকে জন্মদিনে ভাচ্চুয়াল গোলাপফুল, পায়েস, কেক, কমলালেবু এসব দিচ্ছিল, সব্বাই নীরবতাপালন করতে লাগল। সেইবছর তার আর কিচ্ছুটি পাওয়া হল না। ভাচ্চুয়ালিও না।

    আরেক কলেজের বন্ধু তার নিজের ছবি পোস্ত করেছিল, তখন তকে সব্বাই বলছিল, "দারুন", "জ্জিও", "হেব্বি হ্যান্ডু", "ঘ্যাম হয়্ছে", এমনকি তার শ্যালিকাও লিখেছিল, "মাই সুপারহ্যান্ডু ডার্লিং জিজু", তখন আমি লিখে এলাম, "তোদের পাড়ার নাপিতগুলো কতদিন ধরে এই অনির্দিষ্টকালের জন্য হরতাল ডেকেছে?" সে তখন সেই ছবিটাই ডিলিট করে দিল।
  • Abhyu | 138.192.7.51 | ০৯ ফেব্রুয়ারি ২০১৪ ০১:২৯628131
  • ব্যাঙদি : ভালো থাকব না কেন রে আকা? আমাকে কালকে আমার এক প্রতিবেশী তার বৌএর সামনে আমাকে লিফটে কমপ্লিমেন্ট দিয়েছে, তারপর থেকে আমি আরো ভালো আছি।

    আকা : ওটা তোকে দেয় নি বউয়ের জে স্পটে হাল্কা করে ছুঁয়েছে। :)

    ব্যাঙদি : আব্বে আকা, এখনও তো কমপ্লিমেন্ট টা শুনলিই না, আগেভাগেই লোকের বৌয়ের কোন না কোন স্পট স্পেকুলেট করতে বসলি।

    সোসেন : আর ইয়ে, স্পটের ব্যাপারটা ভুলভাল পড়ে পুরো ঘেবড়ে গিয়েছিলাম। বতিন্দার পোস্টের পর পোস্টে চোখ কেমন অটো স্পেল চেক মোডে রান করছে।

    ব্যাঙদি :অরণ্যাদা আমি আর আপানাদের পাত্তা দেব কি! আগে শুনুন আমি কেমন পাত্তা পাই। আমার পাড়ায় এখন আমার নাম এইট্টিনজিরোটুর ম্যাডাম, এইট্টিনজিরোটুর আন্টি আর আড়ালে মনস্টার আন্টি আর গলাট্টা ম্যাডাম।
    কোনো বাচ্চাকে বজ্জাতি করতে দেখলেই তাকে এমন চোখ পাকিয়ে তাকাই যে সে বাচ্চাস্ট্যাচু হয়ে যায়। তখন তাদের মাদেরকে ডেকে ডেকে বলি ফের বজ্জাতি করলেই আমাকে খবর ডেবেন, আমি আসব।
    কোনোদিন তাড়াতাড়ি বাড়ি এলে ব্যাঙাচিদের খেলার জায়্গায় গিয়ে বসলে অনেক মা , সবসময়ের কাজের লোকরা হাতে থালা-বাটি-টিপিনবাক্সো নিয়ে আমার গায়ের কাছে ঘুরঘুর করে ছানাদের খাওয়াতে আরম্ভ করে। তো এমনিধারা অ্যাটেনশন পেতে আমার খুব ভালো লাগে।
    কাল সন্ধ্যেবেলায় লিফটে ঢুকতে যাচ্ছি দেখি ষোলতলার এক ফ্ল্যাটের এক পরিবার দাঁড়িয়ে আছে লিফটের ভেতরে। বাবা-মা আর তাদের তিনবছরের ছানা। আমি লিফটে ঢুকতে যেতেই ছানাটা বোতাম টিপে দরজা বন্ধ করে দিচ্ছিল, আমি অম্নি হাত ঢুকিয়ে লিফট থামিয়ে চোখ পাকিয়ে তার দিকে তাকিয়েছি। বাচ্চাটাও অম্নি স্ট্যাচু থেকে স্টিকার হয়ে গিয়ে মায়ের গায়ে সেঁটিয়ে গেছে। আমি বিজয়ীর দৃষ্টিতে তার মায়ের দিকে তাকাতেই তার মা একগাল হেসে বলে উঠেছে "ও কিছু করলেই আমি আপনার নাম করি, অম্নি সিধে হয়ে যায়" আমি গদগদ হয়ে বলাম "খুব ভয় পায় আমাকে, তাই না?" এমনসময়ে মিনমিন করে ছানাটার বাবা বলে উঠলেন, "শুধু ও-ই না, আমিও আপনাকে খুব ভয় পাই।"

    শিবুদা : বৌ এর সামনে বৌ বাদে আর কাউকে ভয় পাওয়া খুব কঠিন। ব্যাঙকে লাল সেলাম।
  • I | 24.96.113.172 | ০৯ ফেব্রুয়ারি ২০১৪ ০৭:৫৯628132
  • আম্মো প্রৌঢ়, কিন্তু ব্যাঙকে ভয় পাই না। এমন কি কাল রাতে বাড়ি ফিরে ছোলাভাজা খেতে খেতে "বেঙ বেঙ যতনের বেঙ" গান শুনেছি। তাইতেই সারাদিনের সব রাগ জল হয়ে গেছে।
  • byaang | 132.178.235.129 | ০৯ ফেব্রুয়ারি ২০১৪ ০৮:০৯628134
  • পাবে, পাবে, একদিন ঠিক ভয় পাবে। সেই যে আমার বহুবছরের সাধনায় লব্ধ খুনের অভীপ্সায় লুব্ধ কুটিল সরু চোখের চাউনি, সেই চাউনিটা দিয়ে যেই তোমার পানে চাইব, তোমার রক্ত আর রক্ত থাকবে না, তা রোজ ফ্লেভারের গোলাবরফ হয়ে যাবে, বুঝেছ?
  • d | 116.66.126.18 | ০৯ ফেব্রুয়ারি ২০১৪ ১০:০৪628135
  • কাল আমরা ব্যাং কে নিয়ে প্রচুর হ্যা হ্যা করেছি।
  • byaang | 132.178.235.129 | ০৯ ফেব্রুয়ারি ২০১৪ ১০:০৬628136
  • ওনারা বইমেলায় গেছেন না ছাই! কুচ্ছো করা ছাড়া আর কাজ নাই।
  • Abhyu | 107.81.103.15 | ১০ ফেব্রুয়ারি ২০১৪ ০২:১৪628137
  • ব্যাঙদি : আমি ফোন থেকে ভাটাচ্ছিলাম আর সে নিজের ল্যাপি থেকে পড়ছিল। হঠাৎ করে আমাকে "এইযে টেবিল থেকে ল্যাপটপটা তোলা হবে না কি হবে না" বলে চেঁচিয়ে উঠল। সীমাহীন আসপদ্দা দেখে প্রথমে থ হয়ে গেলেও কড়া গলায় বললাম, আমার সঙ্গে এই ভাবে কথা বলা যাবে না। আমাকে এইযে বলে অছেদ্দা করে ডাকাও যাবে না। তখন আমাকে ব্যাঁকা গলায় শুধোনো হল "তাহলে কী বলতে হবে? ম্যাডাম?"

    আমিও বলে দিলাম, "ম্যাডাম বলে ডাকলে আপত্তির কিছু দেখি না। মাসিমা বলে ডাকলে আরো ভালো হয়। আজ থেকে এই দুটোর যেকোনো একটা বলে ডাকলে তবেই এবাড়িতে থাকা যাবে।"

    থমথমেমুখে চাদরমুড়ি দিয়ে শুতে চলে গেছে। আর কথা বাড়ানোর সাহস পায় নি।
  • Abhyu | 34.181.4.209 | ১১ ফেব্রুয়ারি ২০১৪ ১১:২২628138
  • এখনো ওঠেনি?
  • মতামত দিন
  • বিষয়বস্তু*:
  • কি, কেন, ইত্যাদি
  • বাজার অর্থনীতির ধরাবাঁধা খাদ্য-খাদক সম্পর্কের বাইরে বেরিয়ে এসে এমন এক আস্তানা বানাব আমরা, যেখানে ক্রমশ: মুছে যাবে লেখক ও পাঠকের বিস্তীর্ণ ব্যবধান। পাঠকই লেখক হবে, মিডিয়ার জগতে থাকবেনা কোন ব্যকরণশিক্ষক, ক্লাসরুমে থাকবেনা মিডিয়ার মাস্টারমশাইয়ের জন্য কোন বিশেষ প্ল্যাটফর্ম। এসব আদৌ হবে কিনা, গুরুচণ্ডালি টিকবে কিনা, সে পরের কথা, কিন্তু দু পা ফেলে দেখতে দোষ কী? ... আরও ...
  • আমাদের কথা
  • আপনি কি কম্পিউটার স্যাভি? সারাদিন মেশিনের সামনে বসে থেকে আপনার ঘাড়ে পিঠে কি স্পন্ডেলাইটিস আর চোখে পুরু অ্যান্টিগ্লেয়ার হাইপাওয়ার চশমা? এন্টার মেরে মেরে ডান হাতের কড়ি আঙুলে কি কড়া পড়ে গেছে? আপনি কি অন্তর্জালের গোলকধাঁধায় পথ হারাইয়াছেন? সাইট থেকে সাইটান্তরে বাঁদরলাফ দিয়ে দিয়ে আপনি কি ক্লান্ত? বিরাট অঙ্কের টেলিফোন বিল কি জীবন থেকে সব সুখ কেড়ে নিচ্ছে? আপনার দুশ্‌চিন্তার দিন শেষ হল। ... আরও ...
  • বুলবুলভাজা
  • এ হল ক্ষমতাহীনের মিডিয়া। গাঁয়ে মানেনা আপনি মোড়ল যখন নিজের ঢাক নিজে পেটায়, তখন তাকেই বলে হরিদাস পালের বুলবুলভাজা। পড়তে থাকুন রোজরোজ। দু-পয়সা দিতে পারেন আপনিও, কারণ ক্ষমতাহীন মানেই অক্ষম নয়। বুলবুলভাজায় বাছাই করা সম্পাদিত লেখা প্রকাশিত হয়। এখানে লেখা দিতে হলে লেখাটি ইমেইল করুন, বা, গুরুচন্ডা৯ ব্লগ (হরিদাস পাল) বা অন্য কোথাও লেখা থাকলে সেই ওয়েব ঠিকানা পাঠান (ইমেইল ঠিকানা পাতার নীচে আছে), অনুমোদিত এবং সম্পাদিত হলে লেখা এখানে প্রকাশিত হবে। ... আরও ...
  • হরিদাস পালেরা
  • এটি একটি খোলা পাতা, যাকে আমরা ব্লগ বলে থাকি। গুরুচন্ডালির সম্পাদকমন্ডলীর হস্তক্ষেপ ছাড়াই, স্বীকৃত ব্যবহারকারীরা এখানে নিজের লেখা লিখতে পারেন। সেটি গুরুচন্ডালি সাইটে দেখা যাবে। খুলে ফেলুন আপনার নিজের বাংলা ব্লগ, হয়ে উঠুন একমেবাদ্বিতীয়ম হরিদাস পাল, এ সুযোগ পাবেন না আর, দেখে যান নিজের চোখে...... আরও ...
  • টইপত্তর
  • নতুন কোনো বই পড়ছেন? সদ্য দেখা কোনো সিনেমা নিয়ে আলোচনার জায়গা খুঁজছেন? নতুন কোনো অ্যালবাম কানে লেগে আছে এখনও? সবাইকে জানান। এখনই। ভালো লাগলে হাত খুলে প্রশংসা করুন। খারাপ লাগলে চুটিয়ে গাল দিন। জ্ঞানের কথা বলার হলে গুরুগম্ভীর প্রবন্ধ ফাঁদুন। হাসুন কাঁদুন তক্কো করুন। স্রেফ এই কারণেই এই সাইটে আছে আমাদের বিভাগ টইপত্তর। ... আরও ...
  • ভাটিয়া৯
  • যে যা খুশি লিখবেন৷ লিখবেন এবং পোস্ট করবেন৷ তৎক্ষণাৎ তা উঠে যাবে এই পাতায়৷ এখানে এডিটিং এর রক্তচক্ষু নেই, সেন্সরশিপের ঝামেলা নেই৷ এখানে কোনো ভান নেই, সাজিয়ে গুছিয়ে লেখা তৈরি করার কোনো ঝকমারি নেই৷ সাজানো বাগান নয়, আসুন তৈরি করি ফুল ফল ও বুনো আগাছায় ভরে থাকা এক নিজস্ব চারণভূমি৷ আসুন, গড়ে তুলি এক আড়ালহীন কমিউনিটি ... আরও ...
গুরুচণ্ডা৯-র সম্পাদিত বিভাগের যে কোনো লেখা অথবা লেখার অংশবিশেষ অন্যত্র প্রকাশ করার আগে গুরুচণ্ডা৯-র লিখিত অনুমতি নেওয়া আবশ্যক। অসম্পাদিত বিভাগের লেখা প্রকাশের সময় গুরুতে প্রকাশের উল্লেখ আমরা পারস্পরিক সৌজন্যের প্রকাশ হিসেবে অনুরোধ করি। যোগাযোগ করুন, লেখা পাঠান এই ঠিকানায় : [email protected]


মে ১৩, ২০১৪ থেকে সাইটটি বার পঠিত
পড়েই ক্ষান্ত দেবেন না। ভালবেসে মতামত দিন