বইমেলা হোক বা নাহোক চটপট নামিয়ে নিন রঙচঙে হাতে গরম গুরুর গাইড ।

এই সুতোর পাতাগুলি [1] [2] [3] [4] [5] [6] [7] [8] [9] [10] [11] [12] [13] [14] [15] [16] [17]     এই পাতায় আছে361--390


           বিষয় : কুমুদির রোমহর্ষক গল্পসমূহ
          বিভাগ : অন্যান্য
          শুরু করেছেন :Abhyu
          IP Address : 141.220.115.241 (*)          Date:10 Jul 2014 -- 06:12 PM




Name:  Abhyu          

IP Address : 81.12.146.97 (*)          Date:09 Apr 2016 -- 08:26 AM

হুঁ?


Name:  Abhyu          

IP Address : 107.81.102.141 (*)          Date:10 Apr 2016 -- 06:07 AM

উইকেন তো সেশ হতে চল্লো, ও কুমুদিইই


Name:  Abhyu          

IP Address : 107.81.102.141 (*)          Date:11 Apr 2016 -- 09:01 AM

শুভ সোমবারের সুপ্রভাত কুমুদি। এই টইটাকে একটু উপরে তুলে রাখুন।


Name:  kumu          

IP Address : 37.56.186.110 (*)          Date:04 Apr 2017 -- 10:50 AM

গুরুতে আজকাল ভারী কটিন কটিন বিষয়ে আলোচনা হয়,এই তরল গল্প কেউ পড়বে কিনা জানিনা।
অভ্যু এই টই খুলে দিয়েছিল,সে আজকাল আসে না।ধরতাই দেয় কে?তাও আশায় আশায় লিখে দিলাম-
আমাদের সময় জবাকুসুম নামে এক আশ্চর্য তেল (মাথার)পাওয়া যেত।তার গন্ধ এমনই তীব্র ও ভয়ংকর ছিল যে তা ভাল বা খারাপ বিবেচনার অবকাশ পাওয়া যেত না।সেই তেল মেখে রাস্তায় বেরোলে ষাঁড়,কুকুর ইত্যাদি তাড়া করার কোন ভয় নেই,কারণ তারা বাতাস শুঁকে আস্তে আস্তে অন্যদিকে চলে যেত।বাসে উঠলে সামনের সীটে বসা লোকটি তো সীট ছেড়ে দিতই,তার পাশের যাত্রীও উঠে পড়তেন,যদি না তিনি নিজেও ঐরকম জবাকুসুম সুরভিত হন।কিন্তু তেলটির যথেষ্ট কাটতি ছিল,নাকি চুলপড়া বন্ধ হত আর ভিজে চুলের গোড়াতে ঘষে ঘষে লাগিয়ে তারপর চুল বেঁধে ফেল্লেও কোন ক্ষতি হত না।

কিন্তু এই গল্প কোন কেশতৈলের গল্প না,এটি হোলো আমাদের কলেজবেলার গল্প,বা আরও সঠিকভাবে বললে তথাগতর গল্প।

তথাগত জবজবে করে মাথায় জবাকুসুম মাখত,পরিপাটি সিঁথি কেটে চুল আঁচড়াত,প্যান্টের মধ্যে ফুলশার্ট গুঁজে পরত,রোজ টিফিন আনত।

সবচেয়ে অভাবনীয় ব্যাপার ছিল,রোজ ,রোজ মানে রো ও জ প্র্যাকটিকাল ক্লাশ করত,মন দিয়ে খাতা লিখত,কাউকে খাতা দিতনা।এটা একদম অমার্জনীয় অপরাধ বলে গণ্য হত,কারণ সকলে সকলকে সাহায্য না করলে পাশ করা অসম্ভব তা সবাই জানত ও মানত।
তথাগত বাড়ির গাড়িতে যাওয়া আসা করত,কোন কারণে আগে ছুটি হয়ে গেলে ট্যাক্সি ডেকে নিত।
সেই প্রাগৈতিহাসিক যুগে একটি ছেলে ট্যাসকি ডেকে বাড়ি যাচ্ছে এটি যে কী অদ্ভুত,অচিন্তনীয় দৃশ্য ছিল,তা লিখে বোঝানো সম্ভব নয়।হামাগুড়ি দিয়ে দিয়ে কলেজস্ট্রীট থেকে নিউ আলিপুর গেলেও কেউ অত অবাক হত না।

ভেবেচিন্তে আমরা ওকে "গত" বলে ডাকা শুরু করি।



Name:  কল্লোল          

IP Address : 57.29.25.24 (*)          Date:04 Apr 2017 -- 11:05 AM

তাপ্পর...............


Name:  pi          

IP Address : 57.29.255.236 (*)          Date:04 Apr 2017 -- 11:11 AM

উরে বাবা রে , পড়তে গেলেই গতবাবুর একটা ছবি ভেসে উঠছে .. তারপর ?

এর সাথে ছবিও চাই। সোসেন পড়লে আঁকবে নাকি ?

তোমাদের সময় প্রেসিতে কেমিস্ট্রিতে র‌্যগিং হতনা ? সেই র‌্যাগিং পেরিয়েও এরকম গন কেস থেকে গেছিলেন ? আমাদের ব্যাচে একদুজন ছিল এরকম। কিন্তু ঐ প্রথম দিনেই সিনিয়রদের খিল্লি খোরাকে সবার আমূল নাহোক, পরিবর্তন তো এসেছিলই।
( ডিঃ র‌্যাগিং এ কোন অত্যাচার টার হয় নাই)

যাহোক, তারপর ?


Name:  kumu          

IP Address : 37.56.186.110 (*)          Date:04 Apr 2017 -- 06:20 PM

নাঃ খুবি মৃদু র‌্যাগিং হতো।
গতকে সর্বদা ডেকেডুকে বিরক্ত করা হত না কিন্তু।মাঝে ২ ডাকা হত,যেমন
-গত ,তোর ডানহাত দিয়ে আলোটা জ্বেলে দিবি?(গত চট করে ডান হাত বাঁ হাতের ফারাক করতে পারত না।খানিকক্ষণ বাঁ হাতে শূন্যে ইকড়ি মিকড়ি কেটে আমাদের দিকে কটমটিয়ে তাকাত,আর ডান হাতে আলো জ্বালত।
-গত,জুতোর ফিতে খুলে গেছে,বেঁধে নে।
-গত,টিপিন খেয়ে নিস মনে করে।
- গত,প্র্যাক খাতাটা একবার দিবি(নেহাৎ কলিযুগে ব্রাহ্মণের দৃষ্টিতে কোনই তেজ নেই,সত্যযুগ হলে চাদ্দিকে মুঠো মুঠো ছাই।)
বেশ চলছিল,গোল বাধাল জগন্নাথদা।নতুনদের জন্য জগন্নাথদার কথা আগের লেখা থেকে কপি পেস্ট করে দিলাম।

"সব কেমিস্ট্রি ল্যাবে একজন শতাব্দী প্রাচীন জগন্নাথদা বা উমাপদদা বা বৃন্দাবনদা থাকেন।তাঁদের দেখলে মনে হয় তাঁরা ল্যাবেই জন্মেছেন ও তদবধি ঐখানেই আছেন।সারাদিন রিএজেন্টের বোতল,র‌্যাক ইত্যাদি মোছামুছি করা,জাবদা খাতা খুলে বীকারফানেলটেস্টটিউবফ্লাস্ককনডেন্সার ইত্যাদির হিসেব রাখা,পরীক্ষার সময় স্যাম্পল,সলিউশন ইত্যাদি তৈরী করা ইত্যাদি বিচ্ছিরি একঘেয়ে কাজ এনারা ভালবেসে দিনের পর দিন করে যান,করেই যান।বিজয়া দশমী বা দীপাবলীর সন্ধ্যাতেও এঁদের অন্তত একবার ল্যাবের সামনে দেখা যায়।
আমাদের ল্যাবে ছিলেন ৫ ফুটিয়া জগন্নাথদা,ভাল প্র্যাকটিকাল জানতেন, একবার আড়চোখে সল্টের চেহারা দেখে তার গুষ্টিঠিকুজি বলে দিতেন,সকলের প্র্যাকের খাতাপত্র গুছিয়ে রাখতেন,বছর শেষে ছাত্র ছাত্রীদের প্র্যাকনোট চেয়ে রেখে দিতেন,ও নতুনদের দিতেন।বলতে কি,জগন্নাথদার অকৃপণ সাহায্য না পেলে অনেক ছাত্রছাত্রী পাশ কর্তে পারত কিনা সন্দেহ।"



Name:  Atoz          

IP Address : 161.141.85.8 (*)          Date:05 Apr 2017 -- 05:16 AM

তারপর কী হল?


Name:  Du          

IP Address : 57.184.52.56 (*)          Date:05 Apr 2017 -- 06:35 AM

বল না কুমুদি।


Name:  pi          

IP Address : 57.29.242.238 (*)          Date:05 Apr 2017 -- 06:53 AM

আমাদের এরকম ছিলেন সাধনদা। ল্যাবটা মোটামুটি ওনারই রাজত্ব ছিল। কড়া লোক ছিলেন, তেমনি ভাল দখলও ছিল।ঐ আড়চে চেয়ে কি একটি দানা টিপে সল্ট বলে দেওয়ার ক্ষমতার অধিকারী এবং সব টেস্টপত্তরের খুঁটিনাটিও।

যাহোক, তারপর কী হইল ?


Name:  পুপে          

IP Address : 131.241.184.237 (*)          Date:05 Apr 2017 -- 04:49 PM

গুরুতে তোমার লেখা টইগুলো হামলে পড়ে পড়ি। মন খারাপ হলে তা ভালো করার মতনও তো টই চাই নাকি? সব্বাই পড়ছে। অন্তত আমি তো পড়ছিই। কি হল তারপর??


Name:  kumu          

IP Address : 37.56.186.110 (*)          Date:05 Apr 2017 -- 07:06 PM

কিন্তু,এহেন জগন্নাথদা আমাদের ব্যাচের ওপর হাড়ে চটা ছিল ২টি কারণে-
১।আচ্ছা বলেন দেখি, বহুমূল্য কলেজ লাইফ কি ল্যাবে নাক ঘষে নষ্ট করার জিনিস?কলেজের ভিতরেবাহিরেকফিহাউসে আড্ডা,নাটক করা,লিটিল ম্যাগাজিন বের করা এতসব করে কতটুকু সময় হাতে থাকে?এইসব বিবেচনা করেই "কয়েন টেস্ট" নামক সার্বজনীন পদ্ধতিটি কলেজে কলেজে চালু হয়।গুরুতে সকলেই মেধাবী ছাত্রছাত্রী,তাঁদের আর বিশদ বর্ণনা দিতে চাই না।কিন্তু অতীব পরিতাপের বিষয় এই যে জগন্নাথদা এই পদ্ধতিতে বিশ্বাস করতো না,ফলস্বরূপ আমাদের ও জগন্নাথদার সম্পর্ক ঠিক সুমধুর ছিল না।
২।এইটিই বেশী গুরুত্বপূর্ণ,কোনরকম প্রয়োজন না থাকা সত্ত্বেও,ক্লাসের ভবঘুরে(আসল নাম ভুলে গেছি,সে নাকি পকেটমানি তোলার জন্য মাঝেমধ্যে যাত্রা করতো) জগন্নাথদাকে আমাদের হিজিবিজ নামক লিটিল ম্যাগের একটি কপ্লিমেন্টারি কপি দেয়।এর পর থেকেই জগন্নাথদার কালো ডাইরীতে পাকাপাকিভাবেআমাদের নাম নথিভুক্ত হয়।

সেই জগন্নাথদা অত্যন্ত কুটিল স্বরে ফিসফিস করে গতকে বোঝাল,এরা সব তোমাকে গত ডাকে ক্যানো?এমনধারা অমঙ্গুলে কান্ড তো দেখিনি বাপু।
প্রায় পনের মিনিট ধরে সেই ভয়ংকর মন্ত্রণা শোনার পর দৃশ্যত ভীষণ উত্তেজিত গত ক্লাসে এসে ঘোষণা করল,"এনি ফার্দার ইউ কল মি গত,হেড ডিপের কাছে আই গো।"
অনেক বোঝানোর পরেও শান্ত করা গেল না,তখন ঠিক হল,পরদিন লাঞ্চব্রেকে বিচারসভায় সিদ্ধান্ত নেয়া হবে।
বিচারক হল জয়তী,যে একেবারেই বাংলা জানতনা।(আমার ভাইএর হাতের লেখা কী!!যেন হস্তাক্ষর,তুই একটা বিড়ম্বনা,স্যার,আপনার ধুতিতে ফায়ার ধরেচে!! -এইরকম ভাষা বলত।)


Name:  Atoz          

IP Address : 161.141.85.8 (*)          Date:06 Apr 2017 -- 02:18 AM

অপূর্ব গল্প। কুমুদি, শিগ্গীর শিগ্গীর পরেরটুকু দাও।
নাহলে কিন্তু "ঐ হেড ডিপের কাছে আই গো " !!! ঃ-)


Name:  i          

IP Address : 147.157.8.253 (*)          Date:06 Apr 2017 -- 04:40 AM

অসাধারণ সব একস্প্রেশন- যেমন সরস তেমন বুদ্ধিদীপ্ত-
কুমুদিদি গো, তারপর কি হ'ল বল?


Name:  kumu          

IP Address : 37.56.186.110 (*)          Date:07 Apr 2017 -- 10:56 PM

কোন সমস্যা হলে নিজেদের মধ্যে মিটিয়ে নেবার জন্য আমাদের ক্লাসে এই বিচারব্যবস্থার প্রচলন হয়েছিল।চাঁদা তুলে দুটি ফিশফ্রাই আনা হত,বিচারকের ফি ছিল একটি পুরো ,আর অন্যটি উপস্থিত সকলে ভাগযোগ করে নিত।তেমন তেমন দিনে হয়তো প্রত্যেকের ভাগে একটু গুঁড়ো জুটত ,কিন্তু কেউ বাদ যেত না।

বিচারক মহোদয়া নিচু জায়গায় বসলে ভাল দেখায় না,তাই বেঞ্চির উপর ব্যাগট্যাগ দিয়ে উঁচু ঢিপি মত করে তার ওপর জয়তীকে হেঁইয়ো মারি করে তুলে দেয়া হল।প্রথমটা একটু ল্যাগব্যাগ করলেও ,বিচারকসুলভ গাম্ভীর্য নিয়ে জয়তী গুছিয়ে বসল।

বিচারক স্বয়ং জেরা করছেন এও অবশ্য ভাল দেখায় না,কিন্তু অত বিচার করলে চলে না।

পচা কেমিস্ট্রির বদলে আইন পড়লে জয়তীর ভবিষ্যৎ যে উজ্জ্বল হত, জেরা শুনে আমাদের
মনে সে বিষয়ে কোন সন্দেহ রইল না।





Name:  kumu          

IP Address : 37.56.186.110 (*)          Date:07 Apr 2017 -- 11:37 PM

-তোর নাম কী?
-##****@@*&^%(চোখের ভাষায়)
গতকে স্মরণ করিয়ে দেয়া হল যে ইটি আদালত,ইয়ার্কি মারার জায়গা নয়।
-তথাগত চক্রবর্ত্তী।
- ডাকনাম কী,কোন স্কুলে পড়তিস ,হাইট কত,অঙ্কে,কেমিস্ট্রিতে,,বাংলায় কত পেইছিলিস,কান কটকট করে কিনা,এই কলেজে কেন এলি,রোজ ২ ল্যাবে যাস ক্যানো,জবাকুসুম না কী ঐ তেল কেন মাখিস,কে রোজ চুল আঁচড়ে দ্যায়,মাছের কাঁটা বাছতে পারিস কিনা,কফিহাউসে কবার গেছিস,কোনদিন যাসনি ,তবে পাশ করবি কী করে এইসব পেরিয়ে শেষে জিগালো,তথাগত মানে কী?
ঝাড়া মুখস্ত বলে গেল"যাহাতে পুনর্জন্ম না হয়,এরূপ নির্বাণপ্রাপ্ত ব্যক্তি"।

বিচারকের হতভম্ব চেহারা দেখে যার যার সামর্থ্য অনুযায়ী ইংজিরিতে অনুবাদ করার চেষ্টা হল।কিছুটা সামলে নিয়ে জয়তী এক ধমক দিল,"যা বলবি সোজা বাংলায় বলবি,কে নাম দিয়েছিল বল,কখন দিয়েছিল?"

-মাই মামা গেভ দিস নেম।আই ওয়জ ৬ মান্থস।
-তার মানে এই হল,তুই যখন মাত্র ৬ মাসের তখনি তোর পুনর্জন্ম বন্ধ করার চেষ্টা শুরু হয়।
মামলা অন্যদিকে মোড় নিচ্চে দেখে,মনে করিয়ে দেয়া হল,কী বলে ডাকা হবে,সেটিই এই আদালতের বিবেচ্য বিষয়।
তখন জয়তী বল্ল,আচ্ছা ,তথা আর গত এই দুটো কথার মানে কী?



Name:  Atoz          

IP Address : 161.141.85.8 (*)          Date:08 Apr 2017 -- 12:06 AM

ওহ, কুমুদি গো!!!!!
ঃ-)


Name:  de          

IP Address : 192.57.120.163 (*)          Date:08 Apr 2017 -- 07:52 PM

উফ্‌!! ঃ))))


Name:   ফরিদা           

IP Address : 37.56.150.191 (*)          Date:09 Apr 2017 -- 08:21 AM

কুমুদি র গল্পরা সিনেমার মতো, ঠিক সিনেমা নয়, আরও স্পষ্ট, চোখের সামনে হচ্ছে ঘটনাগুলি, আমরা ওই কাছেপিঠেই থাকি, গল্পের চরিত্র যদিও তা খেয়াল করছে না।

তাই লেখা যেখানে শেষ হয়, তার পরেও অনেকটা সময় আমরা সেই ল্যাবেই যেন খানিক গুলতানি করে নিজ নিজ ব্যাগ গুছিয়ে বাড়ি যাই। আশা নিয়ে পরদিন আর কী কী সব ঘটতে চলেছে।

ল্যাব চললেই স্বাদু রসায়ন।


Name:  Pi          

IP Address : 167.51.95.205 (*)          Date:09 Apr 2017 -- 11:49 AM

ফরিদাদাকে ক্কয়ে ক্ক !


Name:  kumu          

IP Address : 37.56.186.110 (*)          Date:09 Apr 2017 -- 07:26 PM

সমবেত জনতা যে জ্ঞানগর্ভ আউটপূট দিল, তা এইরকম
-তথা-সেখান,বা সেখানে(যথা ইচ্ছা তথা যা)
গত-চলে গেছে বা হয়ে গেছে এমন কিছু-(গত যৌবন,গতকাল)।

এখন এই দুটি শব্দের আরও কিছু অর্থ বা প্রয়োগ অবশ্যই আছে, যেমন অভিধান খুলে দেখছি- তথা অর্থে সেইরকম(যথা আয়,তথা ব্যয়)অপিচ,আরও( পশ্চিমবঙ্গ তথা ভারতবর্ষ )ইত্যাদি হয়।কিন্তু মনে রাখবেন এ হল কেমিস্ট্রি পড়তে আসা কিছু অর্বাচীন তরুণ তরুণীর জ্ঞানের বহর ।
বাংলা ভাষা সম্বন্ধে তেমন জ্ঞান থাকলে আমরা কেমিস্ট্রি পড়তে আসতাম না,আর আমাদের লিটিল ম্যাগের নাম কমপক্ষে অর্ক ,আগ্নিক এইসব হত,হিজিবিজ হত না।

খানিকক্ষণ শিবনেত্র হয়ে থেকে বিচারক মহোদয়া বল্লেন,

"সেখানে"বা there বলে কাউকে ডাকা উচিত না।ইংলিশে there হল adverb,adverb কি কারও নাম হয়?কিন্তু "গত " হল গিয়ে adjective।অনেক adjective নাম হয়,যেমন,যেমন,দুত্তেরি তোরা বল না দু একটা-
ভিড় বলল,চন--চ--ল- (চঞ্চল উঠে দাঁড়িয়ে চাদ্দিকে ঘুরে ঘুরে হাসিমুখে হাত নাড়ল)।
অ -স ঈ ঈ ম (অসীম ফিসফ্রাই ভাগ করছিল,হেঁড়েগলায় বিকট চ্যাঁচাল উ প স্থি ত)।
সুগত-(আমাদের ক্লাশে কোন সুগত ছিল না,কিন্তু অন্য ক্লাশের ছেলেমেয়েরাও জড়ো হয়েছিল,তাদের ভেতর থেকে দুজন সুগত উঠে দাঁড়াল।)

ফিশফ্রাইএর গন্ধে ঘর ভরে যাবার পর থেকেই বিচারক একটু অন্যমনষ্ক হয়ে পড়েছিলেন।তাঁর অদ্ভুত যুক্তি সম্বন্ধে কেউ কিছু বলতে পারার আগেই তিনি তাড়াহুড়ো করে রায় দিয়ে দিলেন

"দ্য নাম" গত" ইজ ফাইনাল।কোর্ট ইজ ওভার।দে, দে ফ্রাই দে শীগগিরি।কী ক্ষিদে পেয়েচে রে বাবা।হাতটা ধর না,নামব কী করে"

অন্যদিকে আমরা এইটুকু দেখলাম গত উঠে দাঁড়াচ্চে, আর তার দু সেকেন্ডের মধ্যে তারকদা এসে জানাল,এইচএসবি আপনাদিগকে "বিস্মরণ " করেচেন।


Name:  boka          

IP Address : 192.66.117.115 (*)          Date:09 Apr 2017 -- 07:58 PM

"ফিশফ্রাইএর গন্ধে ঘর ভরে যাবার পর থেকেই বিচারক একটু অন্যমনষ্ক হয়ে পড়েছিলেন" - হুঁ, খুবই স্বাভাবিক :)


Name:  Ekak          

IP Address : 52.109.213.214 (*)          Date:09 Apr 2017 -- 08:03 PM

"তার মানে এই হল,তুই যখন মাত্র ৬ মাসের তখনি তোর পুনর্জন্ম বন্ধ করার চেষ্টা শুরু হয়। "


খ্যা খ্যা খ্যা খৌ খোয়া ঘ্র্রাঅহ হা হে হৌ হো


Name:  Du          

IP Address : 57.184.52.56 (*)          Date:09 Apr 2017 -- 09:18 PM

ঃ)))))


Name:  Atoz          

IP Address : 161.141.85.8 (*)          Date:10 Apr 2017 -- 01:35 AM

অপূর্ব!!!!
ঃ-)


Name:  kumu          

IP Address : 37.56.184.4 (*)          Date:15 Apr 2017 -- 07:26 AM

নীনার জন্য তুলে দিলাম।


Name:  Nina          

IP Address : 83.193.159.49 (*)          Date:15 Apr 2017 -- 07:42 AM

থেঙ্কু থেঙ্কু কুমু---চলুক আরও গল্প--দিল গার্ডেন গার্ডেন হয়ে গেল গো :-)


Name:  কল্লোল          

IP Address : 233.186.49.46 (*)          Date:18 Apr 2017 -- 06:19 PM

সামনের বইমেলায় কুমু অমনিবাস চাইইইইইইইইই


Name:  kumu          

IP Address : 37.56.187.243 (*)          Date:18 Apr 2017 -- 09:03 PM

এইচএসবি ছিলেন ল্যাবের সর্বেসর্বা,সমস্ত প্র্যাকের ইনচার্জ বা ঐরকম কিছু।তিনি"বিস্মরণ" করলে হাঁটুর জোড়্টা ক্যামন আলগামতো হয়ে যেত না,পেটের ভেতর এগ্গাদা ফড়িং ফড়টর ফড়টর করে উড়ত না আর "আলজিভ শুকায়ে খটখট্টে" হয়ে যেত না এমন অসমসাহসী/সাহসিনী আমাদের ডিপে ছিল না।কমবয়েসী স্যারেরা প্রায় সকলেই একদা এইচএসবির ছাত্র ছিলেন।বলা বাহুল্য এইচএসবির কাছে তাঁরা ফার্স্ট ইয়ারের ছাত্রই থেকে গেছিলেন।"ঐ সামনের ঘর থেইক্যা অ্যাকটা পোলারে ডাক" এইরকম নির্দেশ নিয়ে জগন্নাথদা প্রফেসার্স রুমে উপস্থিত হলে স্যাররা ফ্যাকাশে মুখে এ ওকে ঠেলছেন,এ আমাদের স্বচক্ষে দেখা।
এইচএসবি সর্বদা অগ্নিশর্মা হয়ে থাকতেন,আর কোন অজ্ঞাত কারণে গত ছাড়া আমাদের ব্যাচের সক্কলের ওপরে একটু বেশি চটিতং থাকতেন।এই ব্যাচের সকলেই যে ফেল হবে,এবং যথাসময়ে বাটি হাতে কলেজ স্ট্রীটে বসবে সে বিষয়ে ওনার সামান্যতম সন্দেহ ছিল না।আমরা অবশ্য স্যারকে যথাসাধ্য আশ্বাস দিতাম যে আমরা হ্যাঁচরপ্যাঁচর করে সেকেন্ড ক্লাসে তরে যাব ঠিক(ফাইনালে সীট পড়বে অন্য কলেজে,সেখানে নিশ্চয়ই কয়েন টেস্টের সুব্যবস্থা থাকবে,আর জগন্নাথদা থাকবে না) ।এই কলেজের প্রায় ৯০% ছাত্রছাত্রী ফার্স্ট ক্লাস পায় এরকম একটি দুর্নাম আছে বটে কিন্তু সে আমরা ঘুচিয়ে দেব-কিন্তু স্যার এসব কথা শুনে আদৌ ভরসা পেতেন না

যা হোক,গুটি গুটি সকলে গিয়ে হাজির হলাম।
যেমনটি ভাবা গেছিল,স্যারের পেছনটিতে গত সর্বাঙ্গ ফুলিয়ে সজারুর মত দাঁড়িয়ে আছে।
আমাদের দেখে স্যার যে ভয়ানক হুংকার দিলেন,তার আওয়াজে কলেজ স্ট্রীটের বাসট্রাম সব বিকট আওয়াজ করে দাঁইড়ে গেল(মানে আমাদের তেমনই মনে হয়েছিল)আর মেন বিল্ডিংএ ঢং ঢং করে টিপিনঘন্টা বেজে গেল।
"ল্যাখাপড়া তো কিসুই কর না,কিসুই না।সেক্ষেত্রে সময়ের এত অভাব ক্যান যে শান্তশিষ্ট পোলাডারেব পুরা নাম ধইরা ডাকতে পার না!
আইজ হইতে হগ্গলে অর পু উ রা নাম ধইরা ডাকবা--"
মানে মানে বেরিয়ে এসে ঠিক করা হল,পুরো নাম ধরেই ডাকা হবে।
(জনতা পড়িলে গল্প চলিবে)



Name:  সিংংগল k          

IP Address : 57.15.9.175 (*)          Date:18 Apr 2017 -- 09:43 PM

আপনার গল্প পড়তে ভীষণ ভয় করছে, কিন্তু জনতার স্বার্থে চোখ বু্ঁজে পড়ছি।

এই সুতোর পাতাগুলি [1] [2] [3] [4] [5] [6] [7] [8] [9] [10] [11] [12] [13] [14] [15] [16] [17]     এই পাতায় আছে361--390