বার পঠিত
ভাটিয়ালি | টইপত্তর | বুলবুলভাজা | হরিদাস পাল | খেরোর খাতা | বই
  • খেরোর খাতা

  • পরাণ বাগ্দী - ৬  

    Anjan Banerjee লেখকের গ্রাহক হোন
    ১৬ জুন ২০২২ | ৩০৭ বার পঠিত | রেটিং ৫ (১ জন)
  • থানার আই সি স্বরূপ রাউথ বলল, ' দেবমাল্যবাবুর সঙ্গে আমার আলাপ হয়েছে । উনি পরাণ বাগ্দীর কেসটার ব্যাপারে ইগারলি সিনসিয়ার । অ্যন্ড কোয়াইট জাস্টিফিয়েবলি সো ..... । দেবমাল্য সরকার আপনার হেল্প নিয়ে ভালই করেছে । গড ফরবিড ....  আমি কিন্তু  খুব ডাউটফুল অ্যবাউট দা আউটকাম .... বিকজ অফ দা পলিটিক্যাল অ্যটমসফিয়ার অফ্ দিস প্লেস ...... আমি কি বলতে চাইছি বুঝতে পারছেন নিশ্চয়ই .... '
    কলতান ঠোঁটে হাসি ফুটিয়ে চোখ বুজিয়ে একদিকে ঘাড় কাত করল । 
    স্বরূপ রাউথের বয়স প্রায় পঞ্চাশ । অনেক থানা ঘুরে এখানে এসেছেন । বারবার ট্রান্সফারের কারণ বোধহয়  তার আপোষহীন স্বভাব । মুখ বুজে অন্যায় মেনে নেবার মানুষ স্বরূপ নন । এটা তার স্বাভাবিক অভ্যাস । এড়িয়ে যেতে পারেন না । 
    ----- ' মিস্টার গুপ্ত আপনার সোদপুরের শান্তনীড় আবাসনের কেসটার কথা আমি ওখানকার ওসি সমীর ঘোষের কাছে শুনেছি । সমীর আমার অনেকদিনের পরিচিত । শান্তনীড় কেসটা ..... ইট ওয়াজ রিয়েলি অসাম .... '
    ---- ' আমাকে লজ্জা দেবেন না স্বরূপবাবু .... এমন কিছু ব্যাপার না .... ' 
    ----- ' বলেন কি ....এমন কিছু ব্যাপার না !  আমি সব শুনেছি সমীরের কাছে ..... '
    ------ ' যাক ওসব কথা .... এ কেসটা সম্পর্কে আপনার মতামত কি ? '
    ----- ' কমন সেন্স বলে অন্তত একটা  আনরেফিউটেবল উইটনেস পেলে  কেসটা ঘুরে দাঁড়াতে পারে ..... '
    ---- ' হুমম্ .... ঠিকই .. ঠিকই ... আর একটা দিক হল .... মার্ডার উইপনটা যদি রিট্রিভ করা যায় .... ' কলতান বলল ।
    ----- ' সেটা তো ভার্চুয়ালি ইম্পসিবল .... তিন বছর আগের ঘটনা ..... ওটা কিভাবে পাওয়া যাবে ? '
    ------ ' হুমম্ ...সেটাও তো একটা সমস্যা ..... অতল জলের আহ্বান  .... '
    ----- ' হ্যা ..... কি বললেন ? '
    ----- ' না .... বলছি যে বিশ বাঁও জলে .... '
    ----- ' ওই তো .... সেটাই তো বলছি .... হাঃ হাঃ ... '
    ----- ' কিন্তু চুম্বকে তো লোহা টেনে আনে ... বড়সড় চুম্বক হলে .... '
    ---- ' হ্যা .... তাতে কি ? ' আই সি সাহেব অবাক হন । 
    ----- ' না.... এমনি বললাম .... তবে একটু দেখবেন যদি ওরকম কিছু অ্যরেঞ্জ করা যায় ...... দরকার হলেও হতে পারে ....'
    স্বরূপ রাউথ চুপচাপ কলতানের মুখের দিকে তাকিয়ে কথাটা বোঝার চেষ্টা করতে লাগলেন। ভাবলেন, গোয়েন্দারা মাঝে মাঝে এমন হেঁয়ালি করে ..... ধরাই মুশকিল ।
    কলতান একটু চুপ করে থেকে বলল , ' ও হ্যা ... বীরেন ঘোষ মশাইয়ের সঙ্গে পরিচয় হয়েছে ? '
    ----- ' না ... পরিচয় ঠিক হয়নি ....নাম শুনেছি ।ওনার সংগঠনের বোধহয় তেমন জোর এখন আর নেই  ..... তবে শুনেছি খুব অনেস্ট লোক .... '  
    ----- ' হ্যা .... ওনার কনটেনশান ভ্যালুয়েবল হতে পারে এবার .... এতদিন বীরেনবাবুর সাপোর্ট প্রপারলি ইউটিলাইজ করা যায়নি ..... যে কারণেই হোক  ..... হয়ত এখানে আপনার পূর্বতন সহকর্মীর কারণে । এখন তো আপনি আছেন ..... '
    ------ ' একশোবার ..... একশোবার আছি ...' , বলে উঠলেন স্বরূপবাবু ।
    ----- ' অনেক অনেক ধন্যবাদ স্বরূপবাবু ..... আমি এখন উঠি .... হয়ত খুব তাড়াতাড়ি আবার দেখা হবে .... '
       কলতান দেবমাল্যর বাড়ির দিকে হাঁটছিল এদিক ওদিক দেখতে দেখতে । বেলা প্রায় এগারোটা বাজে । ডানদিকে একটা স্কুল দেখা গেল । সরোজিনী বালিকা বিদ্যালয় । ভিতরে ক্লাস বসেছে । স্কুলবাড়ি গমগম করছে । গেটের বাইরে একটা ঝালমুড়িওয়ালা আর একটা আইসক্রিমওয়ালাকে দেখা গেল । ভিতরে একটা ঘন্টা পড়ল । বোধহয় ফার্স্ট পিরিয়ড শেষ হল । স্কুল পেরিয়ে বাঁদিকের রাস্তা ধরল কলতান । একটু এগিয়ে পরপর তিন চারটে দোকান । একটা মুদির দোকান, তিনটে স্টেশনারি দোকান । দোকানগুলোয় দুচারজন ক্রেতা দাঁড়িয়ে আছে । মুদির দোকানের সামনে একপাশে একটা টুলে একজন বসে আছে । মাঝে মাঝে দুচারটে কথা বলছে দোকানদারের 
    সঙ্গে । কলতান একটা স্টেশনারি দোকানে গিয়ে দুটো চকলেট কিনল । একটা পকেটে রাখল আর একটা মুখে পুরল । একজন বছর চল্লিশের লোক বলল  'দাদা বুঝি কলকাতা থেকে ? ' 
    ------ ' হ্যা .... দু তিনদিন থাকব .... ' 
    ----- ' ও ...  তা , কাদের বাড়ি উঠেছেন ? '
    ----- ' দেবমাল্য সরকারের বাড়ি .... উকিল .... '
    ----- ' বুইতে পেরেছি .... বুইতে পেরেছি .... ওই বাজারের রাস্তায় .... '
    ----- ' হ্যা ...হ্যা .... ঠিক .... আচ্ছা আসি .... '
    ---- ' হ্যা ... আসুন .... নমস্কার ... অসুবিধে হলে বলবেন ...... ' 
    দোকানগুলো পেরিয়ে দু পা এগোতেই কলতান দেখল  প্রায় কুড়ি গজ দূরে মৌসুমী। সঙ্গে তার ল্যাম্বোট গুল্টু । কলতান ঠিক করে নিল সুযোগটা নষ্ট করলে চলবে না । বোধহয় দোকানে কিছু কিনতে আসছে ।  
    একদম সামনাসামনি আসতে কলতান বলল,
     ' এই .... শোন একটু ....বলছি যে .... বাজারটা কোনদিকে ? '
    মৌসুমী বলল হাত দেখিয়ে বলল, ' ওই তো সোজা গিয়ে সামনে যে মোড়টা পাবেন.... ওখান থেকে ডানদিকে ঘুরে একটুখানি .... '
    ---- ' ও আচ্ছা ..... ধন্যবাদ । আচ্ছা .... হৃদয় মন্ডল বসন্ত মন্ডলের বাড়ি কি ওদিকেই ? '
    মৌসুমী একটু থমকে গেল । তারপর বলল , ' হ্যা ..... ওদিকটায় ..... '
    গুল্টু কলতানের মুখের দিকে তাকিয়ে ছিল । বোধহয় মেপে নেবার চেষ্টা করছিল । কলতান দাঁড়িয়ে ছিল । তাই ভদ্রতাবশত মৌসুমীও দাঁড়িয়ে ছিল । বুঝতে পারল যে , ভদ্রলোক এখানকার লোক নয় । বোধহয় কলকাতার । 
    কলতান একটু নীচু গলায় বলল, ' ওরা কেমন লোক কিছু জান নাকি ..... '
    ----- ' না  মানে .... লোক খারাপ কেন হবে ....কেন বলুন তো .... ' মৌসুমী মনের পুরো ঢাকনা খোলে না ।
    ----- ' না .... ওই .... একটা  সম্বন্ধের ব্যাপার ছিল .... '
    কৌতূহলের টানে মৌসুমী দাঁড়িয়ে গেল । 
    ----- ' সম্বন্ধ মানে .... বিয়ের ? '
    ---- ' হ্যা .... ওই আর কি .... '
    প্রবল মহিলাসুলভ অনুসন্ধিৎসায় মৌসুমী কৌতূহল নিয়ন্ত্রণ করতে পারল না .....
    ----- ' কার বিয়ের সম্বন্ধ ? '
    ----- ' বসন্ত মন্ডল ..... হৃদয় মন্ডলের ছেলে ... '
    মৌসুমীর মুখ দিয়ে বিস্ময়সূচক শব্দ বেরিয়ে গেল .....  ' তাই নাকি ! বসন্তর সম্বন্ধ ..... কোথাকার মেয়ে ? '  
    ----- ' কলকাতার ..... আমি মেয়ের কাকা । '
    মৌসুমীর বিস্ময়ের পারদ ক্রমশঃ ওপরে চড়তে লাগল । 
    ----- ' আ..চ্ছা ... তাই নাকি ! '
    ----- ' হ্যা । আচ্ছা ...অনেক ধন্যবাদ .... এগোই তা'লে .... ' 
    মৌসুমী অনায়াসেই বলতে পারত , ' আচ্ছা.... ঠিক আছে '
    কিন্তু মনের ভিতর থেকে তীব্র বিবেকবোধ মৌসুমীকে টেনে ধরল ।  জেনেশুনে একটা মেয়ের জীবন নষ্ট করার কাজের ভাগীদার হতে তার বিবেকে বাধল । 
    সে কলতানকে  বলল,  ' আচ্ছা .... একটু দাঁড়ান কাকু .... যদি আপনার হাতে সময় থাকে দু একটা কথা বলতাম ..... '
    ----- ' আঁ .... কথা .... ওই ব্যাপারে .... তা একটু 
    সময় হতে পারে .... খবরটা নেওয়া তো খুব জরুরী .... তাই না ? ' 
    ----- ' এখানে একটু দাঁড়ান ..... আমি ওই  দোকান থেকে ঘুরে আসছি ..... ' মৌসুমী গুল্টুকে নিয়ে দোকানের দিকে গেল । 
    ' আচ্ছা .... ' বলে কলতান কৃতজ্ঞতার হাসি হাসল । মৌসুমীর চোখে পড়ল, পাত্রীর কাকার সামনের একটা দাঁত ভাঙা । ঠিক মনে পড়ল না আগে কোথায় যেন দেখেছে ।
    আশ্চর্যের ব্যাপার হল, সমগ্র বাক্যালাপে গুল্টুর মতো অস্থির মানুষকে একবারও ধৈর্য হারাতে দেখা গেল না ।  
    দোকানে কেনাকাটা শেষ হলে মৌসুমী ফিরে এসে বলল , ' হ্যা .... চলুন কাকু .... '
    ---- ' কোথায় ? ' 
    ----- ' আমাদের বাড়ি ..... '
       ( ক্রমশঃ )
    **********************************************************************************

     

     
  • মতামত দিন
  • বিষয়বস্তু*:
  • যোষিতা | ১৭ জুন ২০২২ ০০:০৬509078
  • অঞ্জনবাবু,
     
    তিনটে ডট দিতে হয়, তার বেশিও না কমও না।
     
    মন দিয়ে পড়ছি।
  • যোষিতা | ১৭ জুন ২০২২ ০০:০৭509079
  • উইপন শব্দটা একটু কানে লাগছে। 
  • Anjan Banerjee | ১৭ জুন ২০২২ ০৮:০৩509083
  • আচ্ছা বেশ 
  • বিপ্লব রহমান | ২৬ জুন ২০২২ ০৬:০৫509413
  • বিয়ের টোপ বেশ! গাঁ গেরামের কাহিনী যখন। পড়ছি
  • মতামত দিন
  • বিষয়বস্তু*:
  • কি, কেন, ইত্যাদি
  • বাজার অর্থনীতির ধরাবাঁধা খাদ্য-খাদক সম্পর্কের বাইরে বেরিয়ে এসে এমন এক আস্তানা বানাব আমরা, যেখানে ক্রমশ: মুছে যাবে লেখক ও পাঠকের বিস্তীর্ণ ব্যবধান। পাঠকই লেখক হবে, মিডিয়ার জগতে থাকবেনা কোন ব্যকরণশিক্ষক, ক্লাসরুমে থাকবেনা মিডিয়ার মাস্টারমশাইয়ের জন্য কোন বিশেষ প্ল্যাটফর্ম। এসব আদৌ হবে কিনা, গুরুচণ্ডালি টিকবে কিনা, সে পরের কথা, কিন্তু দু পা ফেলে দেখতে দোষ কী? ... আরও ...
  • আমাদের কথা
  • আপনি কি কম্পিউটার স্যাভি? সারাদিন মেশিনের সামনে বসে থেকে আপনার ঘাড়ে পিঠে কি স্পন্ডেলাইটিস আর চোখে পুরু অ্যান্টিগ্লেয়ার হাইপাওয়ার চশমা? এন্টার মেরে মেরে ডান হাতের কড়ি আঙুলে কি কড়া পড়ে গেছে? আপনি কি অন্তর্জালের গোলকধাঁধায় পথ হারাইয়াছেন? সাইট থেকে সাইটান্তরে বাঁদরলাফ দিয়ে দিয়ে আপনি কি ক্লান্ত? বিরাট অঙ্কের টেলিফোন বিল কি জীবন থেকে সব সুখ কেড়ে নিচ্ছে? আপনার দুশ্‌চিন্তার দিন শেষ হল। ... আরও ...
  • বুলবুলভাজা
  • এ হল ক্ষমতাহীনের মিডিয়া। গাঁয়ে মানেনা আপনি মোড়ল যখন নিজের ঢাক নিজে পেটায়, তখন তাকেই বলে হরিদাস পালের বুলবুলভাজা। পড়তে থাকুন রোজরোজ। দু-পয়সা দিতে পারেন আপনিও, কারণ ক্ষমতাহীন মানেই অক্ষম নয়। বুলবুলভাজায় বাছাই করা সম্পাদিত লেখা প্রকাশিত হয়। এখানে লেখা দিতে হলে লেখাটি ইমেইল করুন, বা, গুরুচন্ডা৯ ব্লগ (হরিদাস পাল) বা অন্য কোথাও লেখা থাকলে সেই ওয়েব ঠিকানা পাঠান (ইমেইল ঠিকানা পাতার নীচে আছে), অনুমোদিত এবং সম্পাদিত হলে লেখা এখানে প্রকাশিত হবে। ... আরও ...
  • হরিদাস পালেরা
  • এটি একটি খোলা পাতা, যাকে আমরা ব্লগ বলে থাকি। গুরুচন্ডালির সম্পাদকমন্ডলীর হস্তক্ষেপ ছাড়াই, স্বীকৃত ব্যবহারকারীরা এখানে নিজের লেখা লিখতে পারেন। সেটি গুরুচন্ডালি সাইটে দেখা যাবে। খুলে ফেলুন আপনার নিজের বাংলা ব্লগ, হয়ে উঠুন একমেবাদ্বিতীয়ম হরিদাস পাল, এ সুযোগ পাবেন না আর, দেখে যান নিজের চোখে...... আরও ...
  • টইপত্তর
  • নতুন কোনো বই পড়ছেন? সদ্য দেখা কোনো সিনেমা নিয়ে আলোচনার জায়গা খুঁজছেন? নতুন কোনো অ্যালবাম কানে লেগে আছে এখনও? সবাইকে জানান। এখনই। ভালো লাগলে হাত খুলে প্রশংসা করুন। খারাপ লাগলে চুটিয়ে গাল দিন। জ্ঞানের কথা বলার হলে গুরুগম্ভীর প্রবন্ধ ফাঁদুন। হাসুন কাঁদুন তক্কো করুন। স্রেফ এই কারণেই এই সাইটে আছে আমাদের বিভাগ টইপত্তর। ... আরও ...
  • ভাটিয়া৯
  • যে যা খুশি লিখবেন৷ লিখবেন এবং পোস্ট করবেন৷ তৎক্ষণাৎ তা উঠে যাবে এই পাতায়৷ এখানে এডিটিং এর রক্তচক্ষু নেই, সেন্সরশিপের ঝামেলা নেই৷ এখানে কোনো ভান নেই, সাজিয়ে গুছিয়ে লেখা তৈরি করার কোনো ঝকমারি নেই৷ সাজানো বাগান নয়, আসুন তৈরি করি ফুল ফল ও বুনো আগাছায় ভরে থাকা এক নিজস্ব চারণভূমি৷ আসুন, গড়ে তুলি এক আড়ালহীন কমিউনিটি ... আরও ...
গুরুচণ্ডা৯-র সম্পাদিত বিভাগের যে কোনো লেখা অথবা লেখার অংশবিশেষ অন্যত্র প্রকাশ করার আগে গুরুচণ্ডা৯-র লিখিত অনুমতি নেওয়া আবশ্যক। অসম্পাদিত বিভাগের লেখা প্রকাশের সময় গুরুতে প্রকাশের উল্লেখ আমরা পারস্পরিক সৌজন্যের প্রকাশ হিসেবে অনুরোধ করি। যোগাযোগ করুন, লেখা পাঠান এই ঠিকানায় : [email protected]


মে ১৩, ২০১৪ থেকে সাইটটি বার পঠিত
পড়েই ক্ষান্ত দেবেন না। মন শক্ত করে মতামত দিন