এই সাইটটি বার পঠিত
ভাটিয়ালি | টইপত্তর | বুলবুলভাজা | হরিদাস পাল | খেরোর খাতা | বই
  • হরিদাস পাল  ব্লগ

  • রাশিয়া, ইউক্রেন এবং আমেরিকা -- ভূতের মুখে রামনাম! 

    Partha Banerjee লেখকের গ্রাহক হোন
    ব্লগ | ২৫ ফেব্রুয়ারি ২০২২ | ৬২১৩ বার পঠিত
  • সমস্ত মূলধারার মার্কিন মিডিয়াতে তারা রাশিয়া এবং পুতিনকে ইউক্রেন আক্রমণ ও দখলের জন্য ক্ষুধার্ত ভিলেন হিসাবে চিত্রিত করেছে। এবং ভারত ও আমেরিকার বেশিরভাগ মানুষ এই সুরেই সুর মেলাচ্ছে কোনোরকম ভাবনাচিন্তা না করেই। 
     
    বাজারে মাস্ক মিলবে কোটি কোটি। কিন্তু থিংকিং ক্যাপ আজকাল আর পাওয়া যায়না একেবারেই। 

    কোনো সন্দেহ নেই যে ভ্লাদিমির পুতিন স্বৈরাচারী শাসক হয়ে উঠেছে সেই চেচনিয়ার দমনপীড়নের পর থেকেই। কোনো সন্দেহ নেই গণতন্ত্র ও ভিন্নমতের প্রতি পুতিনের সহনশীলতা জিরো। এবং তার শাসনামল বড় ধরনের যুদ্ধ ও সহিংসতার একটি নতুন পরিবেশ তৈরি করেছে। আমরা কেউ এই আগ্রাসনের পক্ষে নই। 

    কিন্তু হিপোক্রিসিটা অন্য জায়গায়। হিপোক্রিসি হলো এই ইস্যুতে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র এবং বড় বড় মিডিয়ার ভণ্ডামি। এই মিডিয়া -- নিউ ইয়র্ক টাইমস, সিএনএন, ফক্স -- ইরাক, আফগানিস্তান, সিরিয়া, ভিয়েতনাম, কম্বোডিয়া, লাওস এবং কার্যত সারা বিশ্বে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র যা করে এসেছে, তার বিরুদ্ধে একটা কথাও বলেনি, বরং সেই বীভৎস আগ্রাসন ও গণহত্যাকে সমর্থন করে এসেছে প্রকাশ্য বা প্রচ্ছন্নভাবে। এবং তার স্যাটেলাইট সমর্থন পেয়েছে ভারতীয় মিডিয়ার কাছ থেকে। 

    মোটামুটি ব্যাপারটা হলো, মার্কিন আগ্রাসন হলো "কমিউনিজম এবং সন্ত্রাসবাদের শৃঙ্খল থেকে অন্যান্য দেশের মানুষকে মুক্ত করার জন্য ধর্মযুদ্ধ।" মগজধোলাইটা আমরা সহজেই দেখতে পাই একটু চোখ খুলে রাখলেই। অন্যদিকে রাশিয়া, চীন এবং অন্যান্য পরাশক্তিগুলি যা করে তা হল "আক্রমণ" এবং "দখল করা।" আর, দুশো তিনশো বছর ধরে ব্রিটিশ ও ইউরোপীয় দেশগুলো ভারত, বাংলা ও সারা পৃথিবীকে যে চুষে ছিবড়ে করে খেয়েছে, তার কথা তো আর কেউ বলেই না। 
     
    কারণ, ওই যেমন আমার এক ছাত্রী আজ জানালেন, "স্যার, পুরোনো ইম্পিরিয়ালিজমের কথা ভেবে নতুন এক্সপ্যানশনিজমকে সাপোর্ট করা যায়না।" অলরাইট, খুব ভালো কথা। কিন্তু পুরোনো ইতিহাসের রক্তের দাগ, ক্ষতচিহ্ন কি এই জীবনে ভুলে যাওয়া যাবে? ভিয়েতনামে এখনো এজেন্ট অরেঞ্জের কারণে বিকলাঙ্গ সন্তান জন্ম নিচ্ছে। তাদের মায়েরা কি ভুলতে পারবে সে বীভৎস অত্যাচার?

    আমি অনেক বছর ধরে খুব কাছ থেকে দেখেছি বেশিরভাগ আমেরিকান এই মগজধোলাই খেলাটা বুঝতেই পারে না, এবং সেই অজ্ঞানতা ও অশিক্ষার সুযোগ নিয়ে সমস্ত বড় মিডিয়া হাউসগুলি মার্কিন প্রশাসনের পক্ষে নিরলস প্রচার, ভয়ভীতি এবং পক্ষপাতদুষ্ট প্রতিবেদন তৈরি করে। আমরা রিপাবলিকান এবং ডেমোক্রেটিক প্রশাসনের পিছন থেকে পুতুলনাচ নাচানো যুদ্ধ কর্পোরেশনগুলোর এই খেলা সারাজীবন ধরে দেখে আসছি। মিলিটারি ইন্ডাস্ট্রিয়াল কমপ্লেক্স অবিশ্বাস্যভাবে শক্তিশালী, এবং মার্কিন রাজনীতিবিদদের তাদের বিরুদ্ধে দাঁড়ানোর সাহস নেই। সে বুশ বলুন, ক্লিনটন বলুন, ওবামা বলুন, আজকের বাইডেন বলুন। ট্রাম্পের কথা তো ছেড়েই দিলাম। ও লোকটার কথা যত কম বলা যায়, ততই ভালো। 

    বেশিরভাগ আমেরিকান জানে না কিভাবে সামরিক শিল্প কমপ্লেক্স এবং তাদের বোয়িং, রকওয়েল, আই বি এম, জেনারেল ইলেকট্রিক, অ্যাপল, সান মাইক্রোসিস্টেম, আজকের গুগল, মাইক্রোসফ্ট, হাজার আর্মস ফ্যাক্টরি, ন্যাশনাল রাইফেল এসোসিয়েশন, তারপর প্রাইভেট প্রিজন ইন্ডাস্ট্রি যাদের স্টক শেয়ার মার্কেটে কেনাবেচা হয়,  এবং তাদের বিশাল বিশাল ব্যাঙ্ক, শেয়ার মার্কেট ও কর্পোরেট মিডিয়া একসাথে যুদ্ধু যুদ্ধু খেলা খেলে, এবং আমাদের টুপি পরিয়ে ট্রিলিয়ন ডলার প্রফিট করে। 

    আমরা কতিপয় মূর্খ যারা এই আমেরিকান-ব্রিটিশ আগ্রাসী রাজনীতির সমালোচনা করি তাদের হয় যে কোনো অর্থপূর্ণ আলোচনা থেকে বাদ দেওয়া হয়, অথবা যদি তাদের কন্ট্রোল করা খুব কঠিন হয়ে পড়ে তবে চুপ করিয়ে দেওয়া হয়। উদাহরণ -- নোম চমস্কি, হাওয়ার্ড জিন, কর্নেল ওয়েস্ট, এমি গুডম্যান, তারপর জুলিয়ান অ্যাসাঞ্জ জাতীয় সাম্প্রতিক উদাহরণ থেকে যে কেউ শিখতে পারে। আমাদের দেশে পরিবেশবিদ বন্দনা শিবা। 

    নিউ ইয়র্ক টাইমসের ওয়েপন্স অফ মাস ডেস্ট্রাকশনের জালি কাহিনী ভুলে যাইনি এখনো আমরা -- যে বুলশিট বুশ সরকার ইরাকে একতরফাভাবে গণহত্যা চালানোর জন্য ব্যবহার করেছিল এবং মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র কার্যত সমগ্র বিশ্বের প্রতিবাদের বিরুদ্ধে লক্ষ মানুষ হত্যা করেছিল৷ কত আর বলবো? বাংলাদেশের গণহত্যা ও গণধর্ষণ -- সে ঘাতক কিসিঞ্জার এখনো বেঁচে আছে।  

    আমরা দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধের শেষ থেকে এরকম আরও অনেক উদাহরণ উদ্ধৃত করতে পারি। সেই আমেরিকা ও তাদের রামনাম! 

    কথা হলো, শুনছে কে?
    _____

    পুনঃপ্রকাশ সম্পর্কিত নীতিঃ এই লেখাটি ছাপা, ডিজিটাল, দৃশ্য, শ্রাব্য, বা অন্য যেকোনো মাধ্যমে আংশিক বা সম্পূর্ণ ভাবে প্রতিলিপিকরণ বা অন্যত্র প্রকাশের জন্য গুরুচণ্ডা৯র অনুমতি বাধ্যতামূলক। লেখক চাইলে অন্যত্র প্রকাশ করতে পারেন, সেক্ষেত্রে গুরুচণ্ডা৯র উল্লেখ প্রত্যাশিত।
  • ব্লগ | ২৫ ফেব্রুয়ারি ২০২২ | ৬২১৩ বার পঠিত
  • মতামত দিন
  • বিষয়বস্তু*:
  • S | 2a03:e600:100::30 | ২৮ ফেব্রুয়ারি ২০২২ ১০:৫২504436
  • ডিসি, আলোচনাটা আরেকটু মন দিয়ে ফলো করে মন্তব্য করলে এক কথা রিপিট করতে হয়্না। আমি কালকেই লিখেছি যে সমস্ত রকমের সামরিক শক্তি বিস্তারের বিরোধীতা করছি। অবশ্যই রাশিয়ার আক্রমণের সমালোচনা করছি, বিশেষ করে যেখানে আক্রান্ত দেশটা ইউক্রেণ। কিন্তু ন্যাটোর এক্সপ্যানশানও সামরিক শক্তি বিস্তার। সেটারও বিরোধিতা করছি।
  • সংরক্ষণ | 2a03:4000:37:645:: | ২৮ ফেব্রুয়ারি ২০২২ ১০:৫৫504437
  • ইন্দিরার বাংলাদেশ আক্রমণ - এটা জানেন না? এরা সব জু কোলাবোরেটর! নব্য নাৎসি। পোমো নাৎসি।
    মাইরি! কোথা থেকে এসব পাবলিক, এদের আপনারা সংরক্ষণ করুন। আরও খোরাক পাবেন।
  • Politician | 2603:8001:b143:3000:24d9:dea7:82ab:215f | ২৮ ফেব্রুয়ারি ২০২২ ১০:৫৬504438
  • কিউবান মিসাইল ক্রাইসিসের কথাটা একেবারে ঠিকঠাক। সেটার জন্য আমেরিকা আজ অবধি মাপ চেয়েছে বলে জানিনা। 
     
    ভাল মন্দ ভ্যাকুয়াম হয় না। অন্য ঘটনাগুলোর সাথে মিলিয়ে ন্যায় অন্যায় ঠিক হয়। এই যেমন খুন করা মন্দ। কিন্তু আমাকে কেউ খুন করতে এলে তাকে খুন করা ঠিক আছে। রাশিয়া ইউক্রেন আক্রমণ করে ঠিক করেছে কিনা সেটা ইতিহাসের প্রেক্ষিতে ঠিক করতে হবে। 
  • dc | 122.164.33.10 | ২৮ ফেব্রুয়ারি ২০২২ ১১:০৫504440
  • তা ঠিক। কোন খুনই খুন না, পরিপ্রেক্ষিত দেখলেই হলো। 
  • S | 2a03:e600:100::30 | ২৮ ফেব্রুয়ারি ২০২২ ১১:১৩504441
  • ডিসি, আপনি কথাটা ঘোরাচ্ছেন। বলা হয়েছে যে খুন খুনই, কিন্তু লেজিটিমেট কিনা। যেমন ইউক্রেণ নিজেরাই দাবী করেছে যে যত ইউক্রেনিয়ান মারা গেছে রাশিয়ার আক্রমণে, তার থেকে বহুগুন বেশি রাশিয়ান সোলজারদের মেরেছে ইউক্রেণ। তাহলে আপনার হিসাবে তো ইউক্রেনদের দোষী সাবস্ত করতে হয়। সেটা নিশ্চই না। কারণ তারা নিজেদেরকে প্রোটেক্ট করছে। বাই দ্য ওয়ে, ইরাকে এইসব লোক যারা নিজেদের আর দেশকে প্রোটেক্ট করছিলো, তাদেরকে ওয়েস্টার্ণ মিডিয়া কি একটা যেন ডাকছিলো।
  • পলিটিশিয়ান | 76.174.114.1 | ২৮ ফেব্রুয়ারি ২০২২ ১১:১৮504442
  • শুধু ইরাকে নয়। ভারতেও সশস্ত্র বিপ্লবীদের ব্রিটিশ টেরোরিস্ট বলত।
  • S | 2a03:e600:100::30 | ২৮ ফেব্রুয়ারি ২০২২ ১১:২০504443
  • হ্যাঁ ক্ষুদিরাম, ভগত সিং তো বৃটিশদের খাতায় টেররিস্ট।
  • Amit | 120.22.65.101 | ২৮ ফেব্রুয়ারি ২০২২ ১১:৪৮504446
  • কিন্তু আমার প্রশ্ন ছিল দনবাস অঞ্চলে এখন যে হটাৎ করে জেনোসাইড নাজিসম ইত্যাদি তুলে রাশিয়া আক্রমণ করলো - এতো বছরে কতবার এই ইস্যু গুলো রাশিয়া ইন্টারন্যাশনাল ফোরাম গুলোতে তুলেছে ? 
  • পলিটিশিয়ান | 76.174.114.1 | ২৮ ফেব্রুয়ারি ২০২২ ১১:৫২504447
  • ইন্টারন্যাশনাল ফোরাম মানে কি ইউনাইটেড নেশন্স? 
     
    সেখানে প্যালেস্টাইন ইস্যু প্রতি সেশনেই বোধহয় ওঠে। কি হয় সেটা সবাই জানে। সেই ইনস্টিটিউশনে কারো বিশ্বাস না থাকলে দোষ দেওয়া যায় না।
     
    ইন্টারন্যাশনাল কোর্ট অফ জাস্টিস? 
     
    সেটা তো আমেরিকাই স্বীকার করে না।
     
    আর কোনটা?
  • পলিটিশিয়ান | 76.174.114.1 | ২৮ ফেব্রুয়ারি ২০২২ ১১:৫৩504448
  • কবার তুলেছে সেটা কিন্তু জানিনা। কৌতূহল হল কোন ইন্টারন্যাশনাল ফোরামের কথা বলছেন।
  • Amit | 120.22.65.101 | ২৮ ফেব্রুয়ারি ২০২২ ১২:১০504450
  • ইউনাইটেড নেশন ই বলেছি।
  • Amit | 120.22.65.101 | ২৮ ফেব্রুয়ারি ২০২২ ১২:১৮504451
  • সে I ন্টারন্যাশনাল ফোরামে কারোর বিশ্বাস নাই থাকতে পারে। কালকে চীন লাদাখে এরকম একটা অজুহাত তুলে ঢুকে পড়লে সেটাকেও অনেকে জাস্টিফাই করতে পারবেন আশা করি একই যুক্তিতে ? 
     
    মানে চীন কোনো যুক্তির ধার ধারবেনা- সেটা ভাবাই হাস্যকর । কিন্তু পুতিনকে নিয়ে যা যুক্তি পরম্পরা দেখছি তাতে  জাস্ট সাম্রাজ্যবাদের কালো হাত ভেঙে দেওয়া বুদ্ধিজীবী দের যুক্তির কথাই বলছি। 
  • dc | 122.164.33.10 | ২৮ ফেব্রুয়ারি ২০২২ ১২:২৫504452
  • পুতিন অনেকদিন ধরে ইউক্রেনের ফ্যাসিস্ট রেজিমের কথা বলছে। তবে পুটিন নিজে কিন্তু খুব শান্ত আর নরম স্বভাবের মানুষ। মাছ ধরে আর নদীতে চান করে দিন কাটিয়ে দেয়। বিশ্বাস না হলে গুগল করলেই হবে। 
  • | ২৮ ফেব্রুয়ারি ২০২২ ১২:৪৭504453
  • কিন্তু আফগানিস্তানের বেলায় অমিতের দাবী ছিল ইন্টারন্যাশনাল ফোরাম (আম্রিকা? )  স্টেপ ইন করুক, তালিবানদের তাড়িয়ে দিক। 
    এবারে ইউক্রেনে পুতিনের দাবী অনুযায়ী গ্রস হিউম্যুআন রাইট ভায়োলেশান হচ্ছে বলে স্টেপ ইন করেছে। 
    তা অমিত রাশিয়াকে ইন্টারন্যাশনাল  মানতে রাজী নন। এবারে আবার কোনও এক ইন্টারন্যাশনাল এসে রাশিয়াকে হঠাতে হবে। 
    তো সেই ইন্টারন্যাশনাল কি তবে আম্রিকা? 
     
    ওদিকে দেবান্জন বলছেন ইন্দিরা গান্ধী বাংলাদেশ আক্রমণ করেছিলেন(!!)। এইরকম ইতিহাসবোধের সাথেও আপনারা যুক্তি দেবার চেষ্টা করছেন! 
     
    টইটা পুরোই খোরাক ওব খোরাকস। 
  • dc | 122.164.33.10 | ২৮ ফেব্রুয়ারি ২০২২ ১২:৫৫504454
  • laugh
  • Amit | 120.22.65.101 | ২৮ ফেব্রুয়ারি ২০২২ ১৩:০১504455
  • ওহ আচ্ছা। তাহলে দ এর যুক্তি অনুসারে আফগানিস্তান আর ইউক্রেন এ একই লেভেলে হিউমান রাইটস ভায়োলেশন হচ্ছে ?
  • lcm | ২৮ ফেব্রুয়ারি ২০২২ ১৩:০৮504456
  • dc | 2a02:26f7:d6c0:680d:0:cb01:da40:5446 | ২৮ ফেব্রুয়ারি ২০২২ ১৩:১৯504457
  • এই দেখো, এলসিএমদা কোত্থেকে একটা আম্রিকি মদতপুষ্ট নব্য নাতসির ছবি পোস্ট করে দিয়েছে। 
  • lcm | ২৮ ফেব্রুয়ারি ২০২২ ১৩:৩৪504458
  • ওয়েল ইন্ডাস্ট্রির খবর --

    BP, মানে বৃটিশ পেট্রোলিয়াম এর স্টেক ছিল রাশিয়ান কোম্পানি Rosneft-এ, ওদের ২০% স্টেক ছেড়ে দিচ্ছে বিপি। বলছে এর জন্য বিপির অপারেটিং প্রফিট ২ বিলিয়ন ডলার কমে যাবে ২০২৫ সালে।

    রসনেফ্ট ছাড়াও, বিপি-র আরও তিনটে রাশিয়ান কোম্পানিতে স্টেক আছে - ইস্টার্ন সাইবেরিয়ার Taas-Yuryakh এর ২০% , ওয়েস্টার্ন সাইবেরিয়ার Yermak Neftegaz এর ৪৯%, এবং খরমপুরের ৪৯%। সেগুলো নিয়ে কি করবে জানায় নি এখনও।

    বিপি ছাড়াও শেল (Shell) এর আছে সাখালিন এর ২৭%।

    এক্সন মোবিল (ExxonMobil) এর ২৫ বছরের অপারেশন আছে রাশিয়াতে, প্রায় ১০০০ এমপ্লয়ি কাজ করেন ওখানে।

    সব মিলিয়ে, ওয়েল ইন্ডাস্ট্রির ওয়েস্টের বিগ কোম্পানি গুলোর ইমপ্যাক্ট কি হয় সেটা দেখার।

    https://www.cnn.com/2022/02/27/business/bp-rosneft-stake/index.html
  • lcm | ২৮ ফেব্রুয়ারি ২০২২ ১৩:৪০504460
  • ডিসি,
    হে হে, আসলে যুদ্ধ পরিস্থিতিতে তক্কের সময় এরকম অনেক কিছু মনে হয়। ইউক্রেনের অরেঞ্জ রিভোলিউশন নিয়ে এক সময় তেড়ে তক্কো হয়েছে এখানে, আছে কোনো থ্রেডে।
  • lcm | ২৮ ফেব্রুয়ারি ২০২২ ১৩:৪৫504461
  • ইউএসএ-এর পেট্রোলিয়াম লবি অলরেডি ডিগিং এর প্রস্তাব আনতে শুরু করেছে। ফ্র্যাকিং মাঝে একটু কমে গেছিল, আবার না তেড়েফুরে শুরু করে।

    US fossil fuel industry leaps on Russia’s invasion of Ukraine to argue for more drilling

    Petroleum lobby calls for looser regulation and drilling on public lands to ‘ensure energy security’

    https://www.theguardian.com/world/2022/feb/26/us-fossil-fuel-industry-russia-ukraine-drilling
  • S | 2a0b:f4c0:16c:3::1 | ২৮ ফেব্রুয়ারি ২০২২ ১৪:১৯504462
  • অমিতের প্রশ্ন ছিলো যে রাশিয়া আগে কেন বলেনি যে ইউক্রেন ফ্যাসিস্ট কাযকর্ম করছে। দেখানো হয়েছে যে রাশিয়া আগেও এইসব দাবী করেছে। সেই দাবী ঠিক না ভুল - সেটা প্রশ্ন ছিলোনা।

    আর কে যে ফ্যাসিস্ট আর কে যে ফ্যাসিস্ট নয় - সেতো যুদ্ধজয়ীরাই পরে ঠিক করে। এই যেমন বৃটিশরা আমাদের শিখিয়েছে যে চার্চিল দারুন একজন মানুষ ছিলেন। ইয়োরোপিয়ানরা দিকে দিকে কলোনি তৈরী করেছিলো বর্বরদের মানুষ করার জন্য। কিছু দেশের ফাউন্ডিং ফাদারদের নিয়ে একদল লোক দারুন গর্বিত যদিও তাঁদের মধ্যে কেউ কেউ স্লেভ ঔনার ছিলেন। এইসব আরকি।

    ফ্যাসিজম তো কোথাও কম পড়িতে দেখিলাম না।

    আর এইসব ডেমোক্র‌্যাসি, হিউম্যান রাইটস, ফ্রী ট্রেড এগুলো এক একটা খেলা। যতক্ষন একদল জেতে, ততক্ষন ঠিক আছে, অন্য দলকেও জোড় করে সেই খেলা খেলতেই হবে। তারপর যখন দেখে যে অন্য দলও একটু একটু জিতছে, তখন আর ভালো লাগেনা। ফ্রী-ট্রেড, ক্যাপিটালিজম, সিটিবিটি - এসবের কি হাল হয়েছে সেতো দেখাই যাচ্ছে।
  • মাখনলাল | 154.16.171.167 | ২৮ ফেব্রুয়ারি ২০২২ ১৪:৪২504463
  • দাদা, ক্যাপিটালিজম কি জিনিস?
  • Amit | 120.22.65.101 | ২৮ ফেব্রুয়ারি ২০২২ ১৪:৪৬504464
  • দ্যাখেন যুক্তিটা যদি শেষ অবধি দাঁড়ায় যে যারা জিতেছে তারাই ঠিক তাহলে আলোচনার কোনো দরকার ই তো নেই। যা ইচ্ছে হোক। আমরা উলুখাগড়ার দল বাচি কি মরি কার কি এলো গেলো। তবে ওই আর কি - যে কলকাতায় বাঙালিরা কথায় কথায় সাম্রাজ্যবাদের  কালো হাত ভেঙে গুড়িয়ে দিতে রাস্তা অবরোধ করে বেড়ায় - সেখানে একটু মিউ মিউ ও শোনা যাচ্ছেনা , বরং পুতিনকে জাস্টিফিকেশন এর চেষ্টা হচ্ছে সেটা আশ্চর্য লাগছে একটু। 
     
    আর আম্রিগা খুব খারাপ। কিন্তু সবাই আবার স্লোগান দেয় "আম্রিগা গো ব্যাক , বাট টেক মি উইথ ইউ।" এই যেমন দ্যাখেন - মূল যিনি লিখেছেন অম্রিগার মুন্ডুপাত করে - তার নিজের লেখার নিচেই  আগে ওনার ব্রুকলিনের স্ট্যাম্প মারা থাকতো -ইদানিংকালে সেটা দেখা যাচ্ছেনা অবশ্য।
  • S | 2001:4ba0:fffe:5:: | ২৮ ফেব্রুয়ারি ২০২২ ১৪:৫১504465
  • অমিত এর বেশি তো খোলা পাতায় লেখা যায়্না। বাকীটা কোনওদিন দেখা হলে বলে দেবো।
  • S | 2001:4ba0:fffe:5:: | ২৮ ফেব্রুয়ারি ২০২২ ১৪:৫৩504466
  • আর যুক্তি না। ঐটাই তো হয়ে এসেছে। এই যুদ্ধে যদি ইউক্রেণ রুখে দেয়, তাহলে রাশিয়া কত খারাপ, সেই নিয়ে হাজার হাজার লেখাপত্তর বেড়োবে, আলোচনা হবে। ইত্যাদি। আর রাশিয়া যদি ইউক্রেণকে গিলে ফেলে, তাহলে আবার উল্টো গঙ্গা বইবে।
  • পলিটিশিয়ান | 76.174.114.1 | ২৮ ফেব্রুয়ারি ২০২২ ২১:২১504471
  • "আর আম্রিগা খুব খারাপ। কিন্তু সবাই আবার স্লোগান দেয় "আম্রিগা গো ব্যাক , বাট টেক মি উইথ ইউ।" এই যেমন দ্যাখেন - মূল যিনি লিখেছেন অম্রিগার মুন্ডুপাত করে - তার নিজের লেখার নিচেই  আগে ওনার ব্রুকলিনের স্ট্যাম্প মারা থাকতো -ইদানিংকালে সেটা দেখা যাচ্ছেনা অবশ্য।"
     
    তর্কের মধ্যে ব্যক্তিগত আক্রমণ না হলেই ভাল হয়।
     
    আমার মতটা বলি। কেউই (প্রায়) বলেনা যে আমেরিকা টেক মি উইথ ইউ। বলে বেটার পেয়িং জব, টেক মি উইথ ইউ।
  • মতামত দিন
  • বিষয়বস্তু*:
  • কি, কেন, ইত্যাদি
  • বাজার অর্থনীতির ধরাবাঁধা খাদ্য-খাদক সম্পর্কের বাইরে বেরিয়ে এসে এমন এক আস্তানা বানাব আমরা, যেখানে ক্রমশ: মুছে যাবে লেখক ও পাঠকের বিস্তীর্ণ ব্যবধান। পাঠকই লেখক হবে, মিডিয়ার জগতে থাকবেনা কোন ব্যকরণশিক্ষক, ক্লাসরুমে থাকবেনা মিডিয়ার মাস্টারমশাইয়ের জন্য কোন বিশেষ প্ল্যাটফর্ম। এসব আদৌ হবে কিনা, গুরুচণ্ডালি টিকবে কিনা, সে পরের কথা, কিন্তু দু পা ফেলে দেখতে দোষ কী? ... আরও ...
  • আমাদের কথা
  • আপনি কি কম্পিউটার স্যাভি? সারাদিন মেশিনের সামনে বসে থেকে আপনার ঘাড়ে পিঠে কি স্পন্ডেলাইটিস আর চোখে পুরু অ্যান্টিগ্লেয়ার হাইপাওয়ার চশমা? এন্টার মেরে মেরে ডান হাতের কড়ি আঙুলে কি কড়া পড়ে গেছে? আপনি কি অন্তর্জালের গোলকধাঁধায় পথ হারাইয়াছেন? সাইট থেকে সাইটান্তরে বাঁদরলাফ দিয়ে দিয়ে আপনি কি ক্লান্ত? বিরাট অঙ্কের টেলিফোন বিল কি জীবন থেকে সব সুখ কেড়ে নিচ্ছে? আপনার দুশ্‌চিন্তার দিন শেষ হল। ... আরও ...
  • বুলবুলভাজা
  • এ হল ক্ষমতাহীনের মিডিয়া। গাঁয়ে মানেনা আপনি মোড়ল যখন নিজের ঢাক নিজে পেটায়, তখন তাকেই বলে হরিদাস পালের বুলবুলভাজা। পড়তে থাকুন রোজরোজ। দু-পয়সা দিতে পারেন আপনিও, কারণ ক্ষমতাহীন মানেই অক্ষম নয়। বুলবুলভাজায় বাছাই করা সম্পাদিত লেখা প্রকাশিত হয়। এখানে লেখা দিতে হলে লেখাটি ইমেইল করুন, বা, গুরুচন্ডা৯ ব্লগ (হরিদাস পাল) বা অন্য কোথাও লেখা থাকলে সেই ওয়েব ঠিকানা পাঠান (ইমেইল ঠিকানা পাতার নীচে আছে), অনুমোদিত এবং সম্পাদিত হলে লেখা এখানে প্রকাশিত হবে। ... আরও ...
  • হরিদাস পালেরা
  • এটি একটি খোলা পাতা, যাকে আমরা ব্লগ বলে থাকি। গুরুচন্ডালির সম্পাদকমন্ডলীর হস্তক্ষেপ ছাড়াই, স্বীকৃত ব্যবহারকারীরা এখানে নিজের লেখা লিখতে পারেন। সেটি গুরুচন্ডালি সাইটে দেখা যাবে। খুলে ফেলুন আপনার নিজের বাংলা ব্লগ, হয়ে উঠুন একমেবাদ্বিতীয়ম হরিদাস পাল, এ সুযোগ পাবেন না আর, দেখে যান নিজের চোখে...... আরও ...
  • টইপত্তর
  • নতুন কোনো বই পড়ছেন? সদ্য দেখা কোনো সিনেমা নিয়ে আলোচনার জায়গা খুঁজছেন? নতুন কোনো অ্যালবাম কানে লেগে আছে এখনও? সবাইকে জানান। এখনই। ভালো লাগলে হাত খুলে প্রশংসা করুন। খারাপ লাগলে চুটিয়ে গাল দিন। জ্ঞানের কথা বলার হলে গুরুগম্ভীর প্রবন্ধ ফাঁদুন। হাসুন কাঁদুন তক্কো করুন। স্রেফ এই কারণেই এই সাইটে আছে আমাদের বিভাগ টইপত্তর। ... আরও ...
  • ভাটিয়া৯
  • যে যা খুশি লিখবেন৷ লিখবেন এবং পোস্ট করবেন৷ তৎক্ষণাৎ তা উঠে যাবে এই পাতায়৷ এখানে এডিটিং এর রক্তচক্ষু নেই, সেন্সরশিপের ঝামেলা নেই৷ এখানে কোনো ভান নেই, সাজিয়ে গুছিয়ে লেখা তৈরি করার কোনো ঝকমারি নেই৷ সাজানো বাগান নয়, আসুন তৈরি করি ফুল ফল ও বুনো আগাছায় ভরে থাকা এক নিজস্ব চারণভূমি৷ আসুন, গড়ে তুলি এক আড়ালহীন কমিউনিটি ... আরও ...
গুরুচণ্ডা৯-র সম্পাদিত বিভাগের যে কোনো লেখা অথবা লেখার অংশবিশেষ অন্যত্র প্রকাশ করার আগে গুরুচণ্ডা৯-র লিখিত অনুমতি নেওয়া আবশ্যক। অসম্পাদিত বিভাগের লেখা প্রকাশের সময় গুরুতে প্রকাশের উল্লেখ আমরা পারস্পরিক সৌজন্যের প্রকাশ হিসেবে অনুরোধ করি। যোগাযোগ করুন, লেখা পাঠান এই ঠিকানায় : [email protected]


মে ১৩, ২০১৪ থেকে সাইটটি বার পঠিত
পড়েই ক্ষান্ত দেবেন না। দ্বিধা না করে মতামত দিন