• বুলবুলভাজা  ভ্রমণ  পথ ও রেখা  খাই দাই ঘুরি ফিরি

  • পথ ও রেখা – ২ : এলেন, দেখলেন, কোনও সংযোগ হল কী? কে জানে!

    হিরণ মিত্র
    ভ্রমণ | পথ ও রেখা | ২৮ জানুয়ারি ২০২১ | ৫৬১ বার পঠিত
  • পছন্দ
    জমিয়ে রাখুন পুনঃপ্রচার
  • লন্ডন। একক প্রদর্শনী। সহসা উত্তেজনা। একটা ঘূর্ণি। মাঝখানে একজন। চৌকো মুখ বলিরেখায় ভরাপা-গুলো যেন নাচছে। ক্রস করে করে হাঁটছেন। মাঝে মাঝে এক একটা ছবির সামনে দাঁড়াচ্ছেন। ঝুঁকে পড়ে মন দিয়ে দেখছেন। হিরণ মিত্র


    ২০০৭, লন্ডন, কর্ক স্ট্রিট। আমার একক প্রদর্শনী, ল্যান্ডস্কেপ। শনিবার, সন্ধে। লন্ডনের সন্ধে। একটু আগে ঘোড়সওয়ারের একটা বড়ো বাহিনী, খুরের আওয়াজ তুলে সামনের রাস্তা দিয়ে চলে গেল। অদ্ভুত একটা সংগীত। একটা ছন্দে হাঁটা। ঘোড়ার নাল লাগানো খুর, জমিতে টোকা খেয়ে একটা মেটালিক আওয়াজ তোলে। এমন এক তালে তা বাজে, একটার পর একটা, টরে টক্কার মতো, সংকেত পাঠায় দূর দূর দেশে। আমি গ্যালারির কাচের দেয়ালের এপার থেকে শুনে যাই, এক মনে। সন্ধেটা অন্যরকম হয়ে গেল।

    আমরা ছোটো বয়স থেকে রাস্তায় গাড়ি, ঘোড়া বলে এসেছি, কিন্তু আক্ষরিক ঘোড়া কোথায়? সুদূর লন্ডনে এসে ঘোড়ার দেখা মিলল। নির্জনতা ভেঙে গেল। হালকা আঁধারে কালো, খয়েরি, মসৃণ ঘোড়াদের শরীর চলে গেল। কর্ক স্ট্রিট এর কাছেই রয়েল আর্ট কলেজ, চিত্র শিল্পের কেন্দ্র-বিদ্যালয়। আমাদের শিল্প শিক্ষার গতিপ্রকৃতি এরাই ঠিক করে। আজ তা নানা অংশে ভেঙে, ভিন্ন ভিন্ন বিচিত্র চিন্তা তাকে বিভ্রান্ত করে রেখেছে। আমি তারই ফল। বহু অধ্যাপক, ছাত্ররা আসত, আমার প্রদর্শনীতে বারবার, প্রতিবছর। নানা কথা উঠে আসত। ঐতিহ্য ভেঙে যাচ্ছে। ক্লাসিক ধারণা পালটে যাচ্ছে।

    এমনই এক সন্ধ্যায় দেখলাম, দর্শক বেশ উত্তেজিত হয়ে উঠেছে। একটা ঘূর্ণি যেন। এক তরুণী প্রচণ্ড ছটফট করছে। একবার কক্ষে ঢুকছে, আর একবার বেরুচ্ছে। কেন এমন করছে? কী দেখে করছে? কিছুই বুঝতে পারছি না। ঠিক সেই সময়, আমার কন্যা, যার তত্ত্বাবধানে এই প্রদর্শনী, প্রসাধন কক্ষে গেছে, বেসমেন্টে। কাউকে শুধাতেই পারছি না, ঘটনাটা কী? এমন সময় বেশ বড়ো একটা দল, তরুণ, তরুণী, বাউন্সার সহ হুড়মুড়িয়ে ঢুকে পড়ল, আমার প্রদর্শনী কক্ষে। কেন্দ্রে একজন, মনে হল বিশিষ্ট কেউ। খুব চেনা মুখ, বয়স্ক। কোথাও যেন বহুবার দেখেছি। কিন্তু নাম মনে করতে পারছি না।



    বেশ মন দিয়ে আমার কাজ দেখছেন। পাশেই খুবই লম্বা টান টান কালো চুলের এক দীর্ঘাঙ্গী তরুণী। কালো পোশাকে, সান্ধ্য পোশাকে। যাকে ঘিরে উত্তেজনা তারও কালো পোশাক। মুখে প্রচুর বলিরেখা। চোয়াড়ে চৌকো মুখ, দেখে ব্রিটিশ মনে হল। সেই ছটফটে তরুণী প্রচণ্ড উত্তেজনায় ঘুরপাক খাচ্ছে। ভদ্রলোককে আগলাচ্ছে একজন দীর্ঘদেহী, বিশালাকার একজন পুরুষ, সেও কালো পোশাকে। তাকেই বাউন্সার মনে হচ্ছে। স্বাস্থ্যবান! আগলে রাখছে সবকিছুই। আমি বসে বসে সবকিছুই লক্ষ করছি। কিন্তু কিছুই বুঝছি না। একটা চরকিপাক দিলেন ওই ভদ্রলোক। পা-গুলো যেন নাচছে। ক্রস করে করে হাঁটছেন। মাঝে মাঝে এক একটা ছবির সামনে দাঁড়াচ্ছেন। ঝুঁকে পড়ে মন দিয়ে দেখছেন। জলরঙের কাজ, কাগজের ওপর; কিছু সূক্ষ্মতাও রয়েছে এখানে সেখানে। হয়তো তাই নজরে পড়ে যাচ্ছে। এইসব করে হঠাৎই ওরা পাশের গ্যালারির দিকে হাঁটা লাগাল।



    আর ঠিক তখনই আমার কন্যার আবির্ভাব। আমি বললাম, “বাইরে গিয়ে দ্যাখ তো, ওই কালো পোশাক পরা, মাঝারি উচ্চতার লোকটি কে? বেশ চেনা লাগছে, কিন্তু মনে করতে পারছি না।” ওই চেঁচিয়ে বলল, “আরে মিক জ্যাগার, রোলিং স্টোনের। তুমি চিনতে পারলে না? ইনি তো মবড্‌ হয়ে যান, কোথাও গেলে। গানের আসরের টিকিট পাওয়া যায় না। ইশ্‌! একটু আগে এলে, আলাপ করতাম। এমনিতে বিশিষ্ট জনেদের সাথে আমার ছবি তোলা নিষেধ। ওতে নাকি আমার নাম্বার কমে যায়! যাক্‌, আরও একটা সুযোগ ফসকাল!” এতক্ষণে বুঝতে পারলাম জনগণের উত্তেজনার উৎস!

    মিক জ্যাগার কে? স্যার, মাইকেল ফিলিপ জ্যাগার, একজন ব্রিটিশ গায়ক। গান লেখক, অভিনেতা আর প্রযোজক। বিশ্বখ্যাত রোলিং স্টোন গান দলের প্রতিষ্ঠাতা সদস্য। ১৯৪৩-এ জন্ম। আবার লন্ডন স্কুল অব ইকনমিক্স-এর ছাত্র। ২০১৯-এর এপ্রিলে একটা অস্ত্রোপচার হয়, হৃদয়ে। এখন সুস্থ। বর্তমানে ৩৬০ মিলিয়ন ডলার তাঁর সম্পত্তি। অষ্টম ধনী, গায়ক বাজিয়ে হিসেবে।

    তিনি আমার প্রদর্শনী এলেন, দেখলেন, কী বুঝলেন বুঝলাম না। এত দূরের দর্শক, এত দূরের চিত্র ভাবনা আমার। সংযোগ হওয়া সম্ভব নয়। তা ছাড়া কৌতূহল কতটা গড়ায়, জানি না। একটা বিশেষ বৃত্তের মানুষ এঁরা। এদের কৃপা হলে শিল্পীর শুনেছি ভাগ্য খুলে যায়। আমার সাধারণ ভাগ্যই নেই। তো খোলার প্রশ্ন নেই, ব্যাপারটা ওখানেই ইতি।



    রোলিং স্টোনের যুগান্তকারী আপটেম্পো রক ‘পেন্ট ইট ব্ল্যাক’। সেতারে সঙ্গত ব্রায়ান জোন্‌স। রোলিং স্টোন্‌স পত্রিকার মতে ‘One of the greatetst songs of all times’




    ছবি: হিরণ মিত্র
  • বিভাগ : ভ্রমণ | ২৮ জানুয়ারি ২০২১ | ৫৬১ বার পঠিত
  • পছন্দ
    জমিয়ে রাখুন পুনঃপ্রচার
  • কোনোরকম কর্পোরেট ফান্ডিং ছাড়া সম্পূর্ণরূপে জনতার শ্রম ও অর্থে পরিচালিত এই নন-প্রফিট এবং স্বাধীন উদ্যোগটিকে বাঁচিয়ে রাখতে
    গুরুচণ্ডা৯-র গ্রাহক হোন
    গুরুচণ্ডা৯তে প্রকাশিত লেখাগুলি হোয়াটসঅ্যাপে পেতে চাইলে এখানে ক্লিক করে আমাদের হোয়াটসঅ্যাপ গ্রুপে যুক্ত হোন। টেলিগ্রাম অ্যাপে পেতে চাইলে এখানে ক্লিক করে আমাদের টেলিগ্রাম চ্যানেলটির গ্রাহক হোন।
  • মতামত দিন
  • বিষয়বস্তু*:
আমার গুরুবন্ধুদের জানানকরোনা
  • মতামত দিন
  • বিষয়বস্তু*:
  • কি, কেন, ইত্যাদি
  • বাজার অর্থনীতির ধরাবাঁধা খাদ্য-খাদক সম্পর্কের বাইরে বেরিয়ে এসে এমন এক আস্তানা বানাব আমরা, যেখানে ক্রমশ: মুছে যাবে লেখক ও পাঠকের বিস্তীর্ণ ব্যবধান। পাঠকই লেখক হবে, মিডিয়ার জগতে থাকবেনা কোন ব্যকরণশিক্ষক, ক্লাসরুমে থাকবেনা মিডিয়ার মাস্টারমশাইয়ের জন্য কোন বিশেষ প্ল্যাটফর্ম। এসব আদৌ হবে কিনা, গুরুচণ্ডালি টিকবে কিনা, সে পরের কথা, কিন্তু দু পা ফেলে দেখতে দোষ কী? ... আরও ...
  • আমাদের কথা
  • আপনি কি কম্পিউটার স্যাভি? সারাদিন মেশিনের সামনে বসে থেকে আপনার ঘাড়ে পিঠে কি স্পন্ডেলাইটিস আর চোখে পুরু অ্যান্টিগ্লেয়ার হাইপাওয়ার চশমা? এন্টার মেরে মেরে ডান হাতের কড়ি আঙুলে কি কড়া পড়ে গেছে? আপনি কি অন্তর্জালের গোলকধাঁধায় পথ হারাইয়াছেন? সাইট থেকে সাইটান্তরে বাঁদরলাফ দিয়ে দিয়ে আপনি কি ক্লান্ত? বিরাট অঙ্কের টেলিফোন বিল কি জীবন থেকে সব সুখ কেড়ে নিচ্ছে? আপনার দুশ্‌চিন্তার দিন শেষ হল। ... আরও ...
  • বুলবুলভাজা
  • এ হল ক্ষমতাহীনের মিডিয়া। গাঁয়ে মানেনা আপনি মোড়ল যখন নিজের ঢাক নিজে পেটায়, তখন তাকেই বলে হরিদাস পালের বুলবুলভাজা। পড়তে থাকুন রোজরোজ। দু-পয়সা দিতে পারেন আপনিও, কারণ ক্ষমতাহীন মানেই অক্ষম নয়। বুলবুলভাজায় বাছাই করা সম্পাদিত লেখা প্রকাশিত হয়। এখানে লেখা দিতে হলে লেখাটি ইমেইল করুন, বা, গুরুচন্ডা৯ ব্লগ (হরিদাস পাল) বা অন্য কোথাও লেখা থাকলে সেই ওয়েব ঠিকানা পাঠান (ইমেইল ঠিকানা পাতার নীচে আছে), অনুমোদিত এবং সম্পাদিত হলে লেখা এখানে প্রকাশিত হবে। ... আরও ...
  • হরিদাস পালেরা
  • এটি একটি খোলা পাতা, যাকে আমরা ব্লগ বলে থাকি। গুরুচন্ডালির সম্পাদকমন্ডলীর হস্তক্ষেপ ছাড়াই, স্বীকৃত ব্যবহারকারীরা এখানে নিজের লেখা লিখতে পারেন। সেটি গুরুচন্ডালি সাইটে দেখা যাবে। খুলে ফেলুন আপনার খেরোর খাতা, লিখতে থাকুন, বানান নিজের বাংলা ব্লগ, হয়ে উঠুন একমেবাদ্বিতীয়ম হরিদাস পাল, এ সুযোগ পাবেন না আর, দেখে যান নিজের চোখে...... আরও ...
  • টইপত্তর
  • নতুন কোনো বই পড়ছেন? সদ্য দেখা কোনো সিনেমা নিয়ে আলোচনার জায়গা খুঁজছেন? নতুন কোনো অ্যালবাম কানে লেগে আছে এখনও? সবাইকে জানান। এখনই। ভালো লাগলে হাত খুলে প্রশংসা করুন। খারাপ লাগলে চুটিয়ে গাল দিন। জ্ঞানের কথা বলার হলে গুরুগম্ভীর প্রবন্ধ ফাঁদুন। হাসুন কাঁদুন তক্কো করুন। স্রেফ এই কারণেই এই সাইটে আছে আমাদের বিভাগ টইপত্তর। ... আরও ...
  • ভাটিয়া৯
  • যে যা খুশি লিখবেন৷ লিখবেন এবং পোস্ট করবেন৷ তৎক্ষণাৎ তা উঠে যাবে এই পাতায়৷ এখানে এডিটিং এর রক্তচক্ষু নেই, সেন্সরশিপের ঝামেলা নেই৷ এখানে কোনো ভান নেই, সাজিয়ে গুছিয়ে লেখা তৈরি করার কোনো ঝকমারি নেই৷ সাজানো বাগান নয়, আসুন তৈরি করি ফুল ফল ও বুনো আগাছায় ভরে থাকা এক নিজস্ব চারণভূমি৷ আসুন, গড়ে তুলি এক আড়ালহীন কমিউনিটি ... আরও ...
যোগাযোগ করুন, লেখা পাঠান এই ঠিকানায় : [email protected]
মে ১৩, ২০১৪ থেকে সাইটটি বার পঠিত


পড়েই ক্ষান্ত দেবেন না। কল্পনাতীত মতামত দিন