• মতামত দিন
  • বিষয়বস্তু*:
  • π | ১৯ মার্চ ২০২০ ১২:৫০91564
  • #Covid-19 (Serious Post)

    অবশেষে তিনি এলেন। কলকাতা লন্ডন না হলেও, লন্ডন থেকে করোনাভাইরাস এসে হাজির হল আমাদের শহর কলকাতায়। সরকারিভাবে বেলেঘাটা আইডি হাসপাতাল জানিয়েছে, কলকাতায় প্রথম একজনের দেহে করোনাভাইরাস মিলেছে।

    এই মুহূর্তে দুটো বিষয় খুব জরুরি। এক, আতঙ্ক না ছড়ানো। দুই, অবৈজ্ঞানিক কাজ থেকে দূরে থাকা। আসুন, জেনে নিই সেরকমই কিছু তত্ত্ব ও তথ্য।

    ১. তত্ত্বঃ করোনাভাইরাস গরমকালে ছড়ায় না, ভারত গরমের দেশ বলে কোনও চাপ নেই।

    * তথ্যঃ এখনও অবধি সেরকম কোনও প্রমাণ পাওয়া যায়নি। বিশ্বস্বাস্থ্য সংস্থা WHO খুব পরিষ্কার ভাষায় জানিয়েছে, যে কোনও রকম অঞ্চলে করোনাভাইরাস ছড়াতে পারে, জলবায়ুর কোনও প্রভাব প্রমাণিত নয়।

    ২. তত্ত্বঃ ঘনঘন গার্গল করলে করোনাভাইরাস রুখে দেওয়া সম্ভব।

    * তথ্যঃ সেরকম কোনও প্রমাণ এখনও অবধি মেলেনি। গলায় ব্যাকটেরিয়াল ইনফেকশন হলে বা গলা খুসখুস করলে নুনজলে গার্গল করলে কাজ দেয়, কিন্তু করোনাভাইরাস কোনোরকম নুনজলকে পরোয়া করে না।

    ৩. তত্ত্বঃ হলুদ-গোলা জল, মেথির জল, ব্লিচ, রসুন, পুদিনাপাতার জল, থানকুনি, কুলেখাড়া ইত্যাদি করোনাভাইরাসের প্রতিষেধক।

    * তথ্যঃ একেবারেই নয়। এইরকম কোনও কিছুই করোনাভাইরাস রুখে দিতে পারে না। বরং অধিক সেবনে পেটের সমস্যা দেখা দিতে পারে।

    ৪. তত্ত্বঃ যে কোনও মাস্ক পরলেই আপনি সেফ।

    * তথ্যঃ একেবারেই তা নয়। বিশেষভাবে ল্যাবে বানানো বা ক্লিনিক্যালি ব্যবহৃত এন নাইন্টিফাইভ মাস্ক ছাড়া কোনও কিছুতেই করোনাভাইরাস আটকানো সম্ভব নয়। বরং জনস হপকিন্স বিশ্ববিদ্যালয় জানিয়েছে, মামুলি মাস্ক ব্যবহার করলে সেই মাস্ক থেকে ভাইরাস ছড়াতে পারে, যা রীতিমত বিপজ্জনক। শুধুমাত্র আক্রান্ত হলে বা করোনাভাইরাস কনফার্ম হলে তবেই মাস্ক ব্যবহার করুন।

    ৫. তত্ত্বঃ গরমজলে স্নান করলে করোনাভাইরাসের ভয় নেই।

    * তথ্যঃ এমন কোনও তথ্য নেই। WHO ঘনঘন গরম জলে স্নান করতে বারণ করেছে। তাতে উলটে ক্ষতি হতে পারে।

    ৬. তত্ত্বঃ এয়ারপোর্টে থার্মাল স্ক্যানারে ধরা না পড়লে আপনি বেঁচে গেলেন।

    * তথ্যঃ একেবারেই তা নয়। খুব ভাল করে জেনে নিন। প্রতিটি ভাইরাসেরই তার হোস্টে, অর্থাৎ এক্ষেত্রে মানব শরীরে ঢোকার পর একটা ইনকিউবেশন পিরিয়ড থাকে। যে সময় তার লক্ষণ ধরা পড়ে না, কিন্তু তার কাজ চলতে থাকে। ফলে আপনার আজ জ্বর নেই মানে এই নয় যে কাল জ্বর হবে না বা শরীরের করোনাভাইরাস নেই। বরং সিম্পটমস দেখা দিতে ৩ থেকে ১০ দিন সময় লাগে। পরিষ্কার WHO নির্দেশিকা রয়েছে। দয়া করে বাইরে ট্রাভেল করে ঘরে ফিরলে আগে কাছাকাছি হাসপাতালে যান। স্যাম্পল টেস্ট করান। এবং বাকিদের স্বার্থে ১৪ দিনের জন্য নিজেকে সম্পূর্ণ কোয়ারান্টাইন রাখবেন।

    ৭. তত্ত্বঃ করোনাভাইরাস অ্যান্টিবায়োটিকে সেরে যায়।

    * তথ্যঃ একেবারেই ভুল কথা। এখনও অবধি এর কোনও ভ্যাকসিন আবিষ্কৃত হয়নি। এবং কোনও অবস্থাতেই অ্যান্টিবায়োটিক ভাইরাসে কাজ করে না। শুধুমাত্র ব্যাকটেরিয়ার জন্য। ডাক্তার না দেখিয়ে কোনোভাবেই কোনও ওষুধ খাবেন না।

    ৮. তত্ত্বঃ কনস্পিরেসি থিওরিস্টরা তত্ত্ব নামিয়েছেন, করোনাভাইরাস নাকি কোনও গূঢ় উদ্দেশ্যে, বিশেষ কারণে তৈরি করা হয়েছে। রোমহর্ষক কোনও গল্প আছে।

    * তথ্যঃ পুরোপুরি আজগুবি কথা। এমন কিছুই জানা যায়নি। জুনসিস, অর্থাৎ পশুপাখি থেকে মানুষের ওপর ভাইরাস ছড়ানো একটি স্বাভাবিক বায়োলজিক্যাল প্রক্রিয়া।

    ৯. তত্ত্বঃ গোমুত্র, গোবর, হোমিওপ্যাথি, আয়ুর্বেদ, পতঞ্জলি, চরণামৃত, বাবার প্রসাদ ইত্যাদিতে করোনাভাইরাস আটকে যেতে পারে।

    * তথ্যঃ মন্তব্য নিষ্প্রয়োজন, আশা করি আপনি দুই পায়ে হাঁটেন এবং আপনার দুটো শিং নেই।

    WHO, CDC, জনস হপকিন্স ও আরও যা যা সরকারি নির্দেশিকা আছে, কেবল সেগুলোই মেনে চলুন। গুজব ছড়াবেন না। শুধু পরিচ্ছন্ন থাকা, বারবার হাত ধোয়া, ময়লা পরিষ্কার করা, জমায়েত এড়িয়ে চলা, সামাজিক মেলামেশা যথাসম্ভব কম করা এবং সামান্যতম সন্দেহ হলেই কাছাকাছি ডাক্তারের কাছে বা হাসপাতালে যাওয়াই এর এক এবং একমাত্র ওষুধ। অযথা আতঙ্কিত হবেন না। কেউ করোনায় আক্রান্ত হলে দূরত্ব বজায় রাখুন কিন্তু সংবেদনশীল ব্যবহার করুন, মনোবল বাড়াতে সাহায্য করুন।

    আজ থেকে কলকাতার যুদ্ধ শুরু। এই যুদ্ধটা আমরা জিতব। জিতবই।

    সহ নাগরিকদের স্বার্থে - Souradeep Chatterjee
  • π | ১৯ মার্চ ২০২০ ১২:৫৪91565
  • ডাঃ পার্থসারথি ভট্টাচার্য, ফুসুফুস বিশেষজ্ঞ, জানালেন স্বাস্থ্যকর্মী ও হাঁচি কাশির সিম্পটমোয়ালা রোগীরা কোনকারণে মাস্ক একান্তই না পেলে এটা বানিয়ে ব্যবহার করতে পারেন।

  • π | ১৯ মার্চ ২০২০ ১৩:৩২91567
  • Don't step out of your homes, Uddhav Thackeray tells Maharashtra
  • π | ১৯ মার্চ ২০২০ ২০:১৭91581
  • দুটো ড্যশবোর্ডে ইন্ডিয়ার কেস আলাদা দেখাচ্ছে কেন ?
  • π | ১৯ মার্চ ২০২০ ২০:২২91583
  • The Indian Council of Medical Research (ICMR) on Thursday said, “Till date, a total of 826 samples of the people suffering from severe acute respiratory infection (SARI) /influenza like illnesses have been tested at the sites. None of the samples were found positive.”
    The Council stated that it had been closely monitoring the presence of community transmissions. ”Since February 15, the ICMR has initiated sentinel surveillance to detect community transmission of COVID-19. The surveillance sites have been scaled up from 16 sites till Feb 29, 2020 to 51 sites by March 15, 2020.”
  • pi | 162.158.23.100 | ২০ মার্চ ২০২০ ০৮:১৭91595
  • The US Centers for Disease Control and Prevention says that up to one-fifth of infected people aged 20–44 have been ill enough to be hospitalized; 2-4% of these required treatment in an intensive-care unit. No intensive-care admissions or deaths were reported among people younger than 20
  • π | ২০ মার্চ ২০২০ ১৭:০৪91615
  • এটা জোড়া হোক।
  • π | ২০ মার্চ ২০২০ ২২:৪২91623
  • As India registered the highest jump in the number of confirmed coronavirus cases with 52 patients in various parts of the country testing positive, the government revised its testing criteria allowing pneumonia patients hospitalised across the country to be tested for the infection.
  • ঋক্ ধর্মপাল বন্দ্যোপাধ্যায় | ২১ মার্চ ২০২০ ০৩:২২91634
  • কষে মোটামুটি যা দেখলাম
    n=30*(1.16)^(t-35) হারে ভারতে কেসের সংখ্যা বাড়ছে,২১শে মার্চ
    t শুরু হচ্ছে জানুয়ারি ৩০ থেকে। প্রসঙ্গতঃ, কেসের সংখ্যা বাড়ার হারটাও কিন্তু বর্দ্ধমান হারে বাড়ছে। কয়েকদিন আগে ব্রাকেটের মধ্যের সংখ্যাটা ১.১২ ছিলো।
    ব্রাকেটের মধ্যের সংখ্যাটা রাফলি দৈনিক ০।০০৬ পরিমাণে বাড়ছে
  • π | ২১ মার্চ ২০২০ ০৮:০৩91637
  • আপ (করোনার) ক্রোনোলজি সমঝ লিজিয়ে

    x --- (1) --- o ---- (2) -- ---y --- (4) --- (R)

    <------------(3)--------------><------(5)------>

    x = প্রথম ইনফেকশন শুরু হয়েছে ,

    (1) = এই সময়টুকুতে আপনার শরীরে করোনাভাইরাস দানা বাঁধছে, বাড়ছে, আপনার কোষগুলো করোনার RNA'র চারপাশে প্রোটিনের কোট তৈরী করছে, দ্রুত RNA বাড়ছে, কিন্তু কোষ পেরিয়ে এখনো আপনি ভাইরাস অন্য কাউকে "দিচ্ছেন" না , আপনার কোন লক্ষণও দেখহা যাচ্ছে না। এই সময়সারণীর নাম হচ্ছে "লেটেন্ট পিরিয়ড" ("ঘুমের সময়"), হতভাগা ভাইরাসটা আপনার শরীরে যেন ঘুমিয়ে আছে । মোটামুটি ৩ দিন/৭২ ঘন্টা , টেস্ট করলে খুব সম্ভবত নেগেটিভ বেরোবে।

    o = এইবার শরীর ভাইরাস "শেড" করতে শুরু করেছে, তার মানে আপনার মুখের, নাকের, মিউকাস মেমব্রেনে ভাইরাস দানা বাঁধল, এখান থেকে সে অন্যের শরীরে যাবে। এখনো আপনার শরীরে লক্ষণ বেরোয়নি, তবে শিগগির বেরোবে ।

    (2) = একে বলে "infectious period" (সংক্রামক সময় (?? আমি হাবিজাবি বাংলা করলাম, বুঝে নিন) । ৪৮ ঘন্টা। সাংঘাতিক সময় । আপনার লক্ষণ বেরোয়নি, তথাপি আমি আপনার সংস্পর্শে এলে আমি x হয়ে যাব, আমার ইনফেকশন শুরু হবে । টেস্ট করলে পজিটিভ বেরোবে । এই সময়ে আপনাকে আলাদা করে রাখলে উপকার হবে।

    y = শুকনো কাশি, জ্বর জ্বর ভাব, জ্বর, গা ব্যথা, মাথার যন্ত্রণা শুরু হয়ে গেল। আপনি এই সময় অন্য লোককে "দিতে"ও পারবেন। আমি এই সময় আপনার সংস্পর্শে যদি আসি, ইনফেকশন হবে । টেস্ট করলে পজিটিভ বেরোবে। আপনাকে এবার আলাদা হতে হবে। চিকিতসা শুরু হচ্ছে।

    (3) = এর নাম "Incubation period" ("গোকুলে বাড়িছে সময়", এমনি বললাম) । চার থেকে সাত দিন, ধরে নিন পাঁচ দিন (৩ + ২) ।

    (4) = চিকিতসা করা হচ্ছে ।

    R = ফলাফল। বয়স ৫০ এর নীচে হলে, সেরকম অসুখ না থাকলে ৮০ % কেসে বেঁচে বেরিয়ে যাবেন, ভুগবেন, অন্যদের ভোগাবেন, কানের পাশ দিয়ে গুলি বেরিয়ে যাবে। ১৫% কেসে হাসপাতালে ভর্তি করতে হলেও হতে পারে, ৫% কেস , বিশেষ করে ৬৫+ বয়সের মানুষের জন্য, যাঁদের ডায়াবিটিস, উচ্চ রক্তচাপ, ইত্যাদি, খুবই খারাপ পরিণতি।

    (5) = কতদিন চলবে বোঝা যাচ্ছে না। (জানি না) ।

    বাকীটা পরে লিখছি। আলোচনা চলুক, :-)
  • π | ২১ মার্চ ২০২০ ১৭:০৮91651
  • . It appears that she had travelled to Vashi (in Navi Mumbai) to attend a wedding on March 3. It is possible that she came into contact with a person with a history of foreign travel,” said Pune District Collector Naval Kishore Ram, informing that details of the woman’s cab journey to Mumbai are being investigated.

    দ্য হিন্দু থেকে।
  • b | 162.158.166.20 | ২১ মার্চ ২০২০ ১৭:৩২91652
  • লন্ডন স্কুল অফ ট্রপিকাল মেডিসিনের অধ্যক্ষ পিটার পিয়টের বক্তব্য। সহজ ভাষায়ঃ
    ttps://
  • b | 162.158.165.103 | ২১ মার্চ ২০২০ ১৭:৪৬91656
  • ttps://
  • π | ২১ মার্চ ২০২০ ১৮:০৪91657
  • আরেকববার লিনক্টা দিন।

    ভারত ট্রিপল সেঞ্চুরি করে ফেলল। আপিশিয়ালিই।
  • π | ২১ মার্চ ২০২০ ২১:৫৪91663
  • হুম্ম, এল।

    এই যে টেস্টিং এর ক্রাইটেরিয়া রিলাক্স করা হল, এটা লেটেস্ট। উপরে গাইডলাইনটা দেওয়া থাকছে,

    Current testing strategy:

    i. All asymptomatic individuals who have undertaken international travel in the last 14 days:

    - They should stay in home quarantine for 14 days. - They should be tested only if they become symptomatic (fever, cough, difficulty in breathing) - All family members living with a confirmed case should be home quarantined

    ii. All symptomatic contacts of laboratory confirmed cases.

    iii. All symptomatic health care workers.

    iv. All hospitalized patients with Severe Acute Respiratory Illness (fever AND cough and/or shortness of breath).

    v. Asymptomatic direct and high-risk contacts of a confirmed case should be tested once between day 5 and day 14 of coming in his/her contact.

    - Direct and high-risk contact include those who live in the same household with a confirmed case and healthcare workers who examined a confirmed case without adequate protection as per WHO recommendations.Current testing strategy:

    i. All asymptomatic individuals who have undertaken international travel in the last 14 days:

    - They should stay in home quarantine for 14 days. - They should be tested only if they become symptomatic (fever, cough, difficulty in breathing) - All family members living with a confirmed case should be home quarantined

    ii. All symptomatic contacts of laboratory confirmed cases.

    iii. All symptomatic health care workers.

    iv. All hospitalized patients with Severe Acute Respiratory Illness (fever AND cough and/or shortness of breath).

    v. Asymptomatic direct and high-risk contacts of a confirmed case should be tested once between day 5 and day 14 of coming in his/her contact.

    - Direct and high-risk contact include those who live in the same household with a confirmed case and healthcare workers who examined a confirmed case without adequate protection as per WHO recommendations.
  • b | 172.68.146.247 | ২১ মার্চ ২০২০ ২২:১৫91664
  • একটি সর্বভারতীয় প্রতিষ্ঠানে সহ অধিকর্তার ই মেলঃ
    The honorable Prime Minister of India in his address to the nation on 19th March called for a “Janata curfew” on March 22nd from 7 am-9 pm. In this, except those involved in essential services, are requested to be confined in their house. This is not only a social distancing for breaking the chain but also a symbolic expression to India’s readiness to fight the challenges of the COVID-19 pandemic.

    I therefore request all staffs, faculty members and students staying in the campus neither to leave our residence, not get on to the streets nor roam around our localities. I also request the campus residents to not entertain any guests or other persons as far as possible including house helpers, gardeners, etc. to your homes during this period.

    Between 5 pm – 5.15 pm, our ambulance will be roaming around the residential areas with siren. As an expression of our solidarity to the health workers of our country let us all salute them for their tireless and sincere efforts in fighting the pandemic by standing at either our doors or windows or balcony and clap our hands, beat our plates or ring our bells.

    I request all of you to take this in a positive sense and request you to be a part of this endeavor.

    With best regards
  • pi | 172.69.135.201 | ২১ মার্চ ২০২০ ২২:৫২91665
  • বিদা, লিনটার জন্য অনেক ধন্যবাদ। উপরে রেখে দেওয়া যায়। কেউ বাংলা করলে ভাল হত। অবশ্য অনুমতিও লাগবে।
  • π | ২২ মার্চ ২০২০ ১২:২০91683
  • কী।করণীয় নয়, তার আরেক প্রকৃষ্ট উদাহরণ।

    হ্যাঁ, সেটাই ভয়।

    আরেক দায়িত্বজ্ঞানহীনতার উদাহরণ। এই বস্তিতে লোকজন কোথা থেকে কত সোশ্যাল ডিস্টেন্সিং করবেন আর কীভাবে ক'বার হাত ধোবেন।? বস্তির ওই জনঘনত্বে তো দাবানলের মত ছড়াতে পারে!!
    বিদেশ থেকে ফেরার পরে এটুকু সাবধানতা নেওয়া যায়না, সচেতনতা দেখানো যায়না??

    কাল আমাদের কম্পলেক্সেও শুনলাম লোকজন ইউকে থেকে ফিরে, হোন কোয়ারান্টাইনের কড়া নির্দেশ বেলেঘাটা আইডি থেকে দেবার পরেও, বাজারঘাটে ঘুরে বেরিয়েছেন।

    মনে হয়, এগুলো নিয়ে এইসময়ের জনন্য পাব্লিক হেলথ আক্ট লাগিয়ে ফাইন ইম্পোজ না করলে হবেনা।
    https://indianexpress.com/article/india/coronavirus-case-in-a-mumbai-slum-officials-hit-tracking-hurdle-6324652/
  • π | ২২ মার্চ ২০২০ ১৫:০৩91693
  • Indian Council of Medical Research (ICMR) issues guidelines for COVID-19 testing by private laboratories. Maximum cost for testing samples capped at Rs 4,500 (Rs 1,500 for screening test for likely cases & additional Rs 3,000 for confirmation test).
  • π | ২২ মার্চ ২০২০ ১৫:৫৮91694
  • কাল বিকেল ৪ টে থেকে কোলকাতা সহ সব মিউনিসিপালিটি পুরো লকডাউন । অত্যাবশ্যকীয় পণ্য পরিষেবা, ওষুধ বাদে। ভাল সিদ্ধান্ত। আরো আগে নিলেই হয়তো ভাল হত। আশা কররি স্ট্রিক্ট এনফোর্সমেন্ট হবে। যাঁ্রা মানবেন না, কড়া শাস্তি। আর সেই সংগে রিলিফ মেজারস থাকবে। বিশেষ করে ডেইলি ওয়েজ আর্নারদের জন্য। হয়তো ইতিমধ্যেই নেওয়া হয়েছে। একটু জানান।
    আর বাকি জেলা কী হচ্ছে?
    পুনে থেকে যে ট্রেন এল তাদের সবার স্ক্রিনিং হল, কোয়ারান্টাইন কি করা যায়?
    এয়ারপোর্ট্ব বিশেষ কিছু দেশ থেকে এলে বাধ্যতামূলক কোয়ারান্টাইন ( নিজের ঘরে না), করা যায়? বিদেশ ফেরত লোকজন, নানা জায়গায় খবর পাচ্ছি, দিব্বি ঘুরে বেড়াচ্ছেন, ঘরে কাজ করতে আসতেও বাধ্য করছেন।!

    আরেক্টা কথা, কাল থেকে সবাই নিশ্চয় কেনাকাটার জন্য লাইন দেবেন। কাল কিন্তু ভিড়ভাট্টায় প্রচুর কন্টাক্টের সম্ভাবনা। সেটা আটকানো, মিনিমাম ৩ ফুট দূরত্ব সর্বত্র মেন্টেন করানো, হবে আশা করি। কোলকাতা থেকে তো প্রচুর লোক গ্রামে চলে যেতে চাইবেন, সেই নিয়ে কোন ব্যবস্থা নেওয়া হবে? অলরেডি শুনছি ইরান থেকে ফেরত আসা অনেকে গ্রামে, ঠিক কি?
আমার গুরুবন্ধুদের জানানকরোনা
  • মতামত দিন
  • বিষয়বস্তু*:
  • কি, কেন, ইত্যাদি
  • বাজার অর্থনীতির ধরাবাঁধা খাদ্য-খাদক সম্পর্কের বাইরে বেরিয়ে এসে এমন এক আস্তানা বানাব আমরা, যেখানে ক্রমশ: মুছে যাবে লেখক ও পাঠকের বিস্তীর্ণ ব্যবধান। পাঠকই লেখক হবে, মিডিয়ার জগতে থাকবেনা কোন ব্যকরণশিক্ষক, ক্লাসরুমে থাকবেনা মিডিয়ার মাস্টারমশাইয়ের জন্য কোন বিশেষ প্ল্যাটফর্ম। এসব আদৌ হবে কিনা, গুরুচণ্ডালি টিকবে কিনা, সে পরের কথা, কিন্তু দু পা ফেলে দেখতে দোষ কী? ... আরও ...
  • আমাদের কথা
  • আপনি কি কম্পিউটার স্যাভি? সারাদিন মেশিনের সামনে বসে থেকে আপনার ঘাড়ে পিঠে কি স্পন্ডেলাইটিস আর চোখে পুরু অ্যান্টিগ্লেয়ার হাইপাওয়ার চশমা? এন্টার মেরে মেরে ডান হাতের কড়ি আঙুলে কি কড়া পড়ে গেছে? আপনি কি অন্তর্জালের গোলকধাঁধায় পথ হারাইয়াছেন? সাইট থেকে সাইটান্তরে বাঁদরলাফ দিয়ে দিয়ে আপনি কি ক্লান্ত? বিরাট অঙ্কের টেলিফোন বিল কি জীবন থেকে সব সুখ কেড়ে নিচ্ছে? আপনার দুশ্‌চিন্তার দিন শেষ হল। ... আরও ...
  • বুলবুলভাজা
  • এ হল ক্ষমতাহীনের মিডিয়া। গাঁয়ে মানেনা আপনি মোড়ল যখন নিজের ঢাক নিজে পেটায়, তখন তাকেই বলে হরিদাস পালের বুলবুলভাজা। পড়তে থাকুন রোজরোজ। দু-পয়সা দিতে পারেন আপনিও, কারণ ক্ষমতাহীন মানেই অক্ষম নয়। বুলবুলভাজায় বাছাই করা সম্পাদিত লেখা প্রকাশিত হয়। এখানে লেখা দিতে হলে লেখাটি ইমেইল করুন, বা, গুরুচন্ডা৯ ব্লগ (হরিদাস পাল) বা অন্য কোথাও লেখা থাকলে সেই ওয়েব ঠিকানা পাঠান (ইমেইল ঠিকানা পাতার নীচে আছে), অনুমোদিত এবং সম্পাদিত হলে লেখা এখানে প্রকাশিত হবে। ... আরও ...
  • হরিদাস পালেরা
  • এটি একটি খোলা পাতা, যাকে আমরা ব্লগ বলে থাকি। গুরুচন্ডালির সম্পাদকমন্ডলীর হস্তক্ষেপ ছাড়াই, স্বীকৃত ব্যবহারকারীরা এখানে নিজের লেখা লিখতে পারেন। সেটি গুরুচন্ডালি সাইটে দেখা যাবে। খুলে ফেলুন আপনার খেরোর খাতা, লিখতে থাকুন, বানান নিজের বাংলা ব্লগ, হয়ে উঠুন একমেবাদ্বিতীয়ম হরিদাস পাল, এ সুযোগ পাবেন না আর, দেখে যান নিজের চোখে...... আরও ...
  • টইপত্তর
  • নতুন কোনো বই পড়ছেন? সদ্য দেখা কোনো সিনেমা নিয়ে আলোচনার জায়গা খুঁজছেন? নতুন কোনো অ্যালবাম কানে লেগে আছে এখনও? সবাইকে জানান। এখনই। ভালো লাগলে হাত খুলে প্রশংসা করুন। খারাপ লাগলে চুটিয়ে গাল দিন। জ্ঞানের কথা বলার হলে গুরুগম্ভীর প্রবন্ধ ফাঁদুন। হাসুন কাঁদুন তক্কো করুন। স্রেফ এই কারণেই এই সাইটে আছে আমাদের বিভাগ টইপত্তর। ... আরও ...
  • ভাটিয়া৯
  • যে যা খুশি লিখবেন৷ লিখবেন এবং পোস্ট করবেন৷ তৎক্ষণাৎ তা উঠে যাবে এই পাতায়৷ এখানে এডিটিং এর রক্তচক্ষু নেই, সেন্সরশিপের ঝামেলা নেই৷ এখানে কোনো ভান নেই, সাজিয়ে গুছিয়ে লেখা তৈরি করার কোনো ঝকমারি নেই৷ সাজানো বাগান নয়, আসুন তৈরি করি ফুল ফল ও বুনো আগাছায় ভরে থাকা এক নিজস্ব চারণভূমি৷ আসুন, গড়ে তুলি এক আড়ালহীন কমিউনিটি ... আরও ...
গুরুচণ্ডা৯-র সম্পাদিত বিভাগের যে কোনো লেখা অথবা লেখার অংশবিশেষ অন্যত্র প্রকাশ করার আগে গুরুচণ্ডা৯-র লিখিত অনুমতি নেওয়া আবশ্যক। অসম্পাদিত বিভাগের লেখা প্রকাশের সময় গুরুতে প্রকাশের উল্লেখ আমরা পারস্পরিক সৌজন্যের প্রকাশ হিসেবে অনুরোধ করি। যোগাযোগ করুন, লেখা পাঠান এই ঠিকানায় : [email protected]
মে ১৩, ২০১৪ থেকে সাইটটি বার পঠিত


পড়েই ক্ষান্ত দেবেন না। ক্যাবাত বা দুচ্ছাই প্রতিক্রিয়া দিন