শিবাংশু RSS feed

নিজের পাতা

শিবাংশু দে-এর খেরোর খাতা।

আরও পড়ুন...
সাম্প্রতিক লেখালিখি RSS feed
  • ইন্দুবালা ভাতের হোটেল-৬
    চিংড়ির হলুদ গালা ঝোলকোলাপোতা গ্রামটার পাশ দিয়ে বয়ে চলেছে কপোতাক্ষ। এছাড়া চারিদিকে ছড়িয়ে ছিটিয়ে আছে খাল বিল পুকুর। সবুজ জংলা ঝোপের পাশে সন্ধ্যামণি ফুল। হেলেঞ্চার লতা। উঠোনের কোন ঘেঁষে কাঠ চাঁপা। পঞ্চমুখী জবা। সদরের মুখটায় শিউলি। সাদা আঁচলের মতো পড়ে থাকে ...
  • যৌন শিক্ষা মহাপাপ...
    কিছুদিন ধরে হুট করেই যেন ধর্ষণের খবর খুব বেশি পাওয়া যাচ্ছে। যেন হুট করে কোন বিষাক্ত পোকার কামড়ে পাগলা কুকুরের মত হয়ে গেছে কিছু মানুষ। নিজের খিদে মিটাতে শিশু বৃদ্ধ বাছ বিচার করারও সময় নাই, হামলে পড়ছে শুধু। যদি বিষাক্ত পোকার কামড়ে হত তাহলে এই সমস্যার সমাধান ...
  • ইতিহাসবিদ সব্যসাচী ভট্টাচার্য
    আধুনিক ভারতের ইতিহাস চর্চায় সব্যসাচী ভট্টাচার্য এক উল্লেখযোগ্য নাম। গবেষক লেখক শিক্ষক এবং শিক্ষা প্রশাসক হিসেবে তাঁর অবদান বিশেষ উল্লেখযোগ্য। সবসাচীবাবুর বিদ্যালয় শিক্ষা বালিগঞ্জ গভর্মেন্ট হাই স্কুলে। তারপর পড়তে আসেন প্রেসিডেন্সি কলেজের ইতিহাস বিভাগে। ...
  • পাগল
    বিয়ের আগে শুনেছিলাম আজহারের রাজপ্রাসাদের মতো বিশাল বড় বাড়ি! তার ফুপু বিয়ে ঠিকঠাক ‌হবার পর আমাকে গর্বের সাথে বলেছিলেন, "কয়েক একর জায়গা নিয়ে আমাদের বিশাল বড় জমিদার বাড়ি আছে। অমুক জমিদারের খাস বাড়ি ছিল সেইটা। আজহারের চাচা কিনে নিয়েছিলেন।"সেইসব ...
  • অশোক দাশগুপ্ত
    তোষক আশগুপ্ত নাম দিয়ে গুরুতেই বছর দশেক আগে একটা ব্যঙ্গাত্মক লেখা লিখেছিলাম। এটা তার দোষস্খালন বলে ধরা যেতে পারে, কিন্তু দোষ কিছু করিনি ধর্মাবতার।ব্যাপারটা এই ২০১৭ সালে বসে বোঝা খুব শক্ত, কিন্ত ১৯৯২ সালে সুমন এসে বাঙলা গানের যে ওলটপালট করেছিলেন, ঠিক সেইরকম ...
  • অধিকার এবং প্রতিহিংসা
    সল্ট লেকে পূর্ত ভবনের পাশের রাস্তাটায় এমনিতেই আলো খুব কম। রাস্তাটাও খুব ছোট। তার মধ্যেই ব্যানার হাতে একটা মিছিল ভরাট আওয়াজে এ মোড় থেকে ও মোড় যাচ্ছে - আমাদের ন্যায্য দাবী মানতে হবে, প্রতিহিংসার ট্রান্সফার মানছি না, মানব না। এই শহরের উপকন্ঠে অভিনীত হয়ে ...
  • লে. জে. হু. মু. এরশাদ
    বাংলাদেশের রাজনৈতিক ইতিহাসের একটা অধ্যায় শেষ হল। এমন একটা চরিত্রও যে দেশের রাজনীতিতে এত গুরুত্বপূর্ণ অবস্থানে থাকতে পারে তা না দেখলে বিশ্বাস করা মুশকিল ছিল, এ এক বিরল ঘটনা। মুক্তিযুদ্ধকালীন সময়ে যুদ্ধ না করে কোন সামরিক অফিসার বাড়িতে ঘাপটি মেরে বসে ছিলেন ...
  • বেড়ানো দেশের গল্প
    তোমার নাম, আমার নামঃ ভিয়েতনাম, ভিয়েতনাম --------------------...
  • সুভাষ মুখোপাধ্যায় : সৌন্দর্যের নতুন নন্দন ও বামপন্থার দর্শন
    ১৯৪০ সালে প্রকাশিত হয়েছিল সুভাষ মুখোপাধ্যায়ের প্রথম কাব্যগ্রন্থ ‘পদাতিক’। এর এক বিখ্যাত কবিতার প্রথম পংক্তিটি ছিল – “কমরেড আজ নবযুগ আনবে না ?” তার আগেই গোটা পৃথিবীতে কবিতার এক বাঁকবদল হয়েছে, বদলে গেছে বাংলা কবিতাও।মূলত বিশ্বযুদ্ধের প্রভাবে সভ্যতার ...
  • মৃণাল সেনের চলচ্চিত্র ভুবন
    মৃণাল সেনের জন্ম ১৯২৩ সালের ১৪ মে, পূর্ববঙ্গে। কৈশোর কাটিয়ে চলে আসেন কোলকাতায়। স্কটিশ চার্চ কলেজ ও কোলকাতা বিশ্ববিদ্যালয়ে পদার্থবিদ্যায় স্নাতক ও স্নাতকোত্তর স্তরে পড়াশুনো করেন। বামপন্থী রাজনীতির সাথে বরাবর জড়িয়ে থেকেছেন, অবশ্য কমিউনিস্ট পার্টির সদস্য ...


বইমেলা হোক বা নাহোক চটপট নামিয়ে নিন রঙচঙে হাতে গরম গুরুর গাইড ।

শিবাংশু প্রদত্ত সর্বশেষ দু পয়সা

লেখকের আরও পুরোনো লেখা >> RSS feed

জানতো যদি হাছন রাজায়: একটি স্থির চিত্র

বারো-তেরো বছর বয়স হবে তখন। বাবার সঙ্গে শরৎকালে যাচ্ছিলুম আমাদের দ্যাশের বাড়ি। থার্টি আপ নামক ট্রেনটি, এখন যার নাম কুর্লা এক্সপ্রেস, টাটানগর থেকে হাওড়া যেতে সব স্টেশনে দাঁড়াতো।প্যাসেঞ্জারের অধম। তখনও গীতাঞ্জলিই শুরু হয়নি। জ্ঞানেশ্বরী, আজাদ হিন্দ, দুরন্ত সব তখন স্বপ্নে। বম্বে যেতে আসতে টোয়েন্টি নাইন ডাউন বা রাতে বম্বে মেল। আমরা দিনের বেলা খড়গপুর যেতে গেলে থার্টি আপ ধরতুম টাটানগর থেকে। সকালবেলা 'ভাতেভাত' খেয়ে সেই যাত্রা। খড়গপুরে নেমে ধরতে হতো গোমো প্যাসেঞ্জার। বিকেল বিকেল পৌঁছে দিতো আমাদের দ্যাশের

জোড়াসাঁকো জংশন ও জেনএক্স রকেটপ্যাড- ১২

'এই দুর্ভাগা দেশকে আপনার কণ্ঠমাধুরী ও কলাসিদ্ধির দ্বারা আনন্দিত করুন, সুস্থ করুন। বিশেষত যখন রবীন্দ্রনাথের শ্রেষ্ঠ সৃষ্টি শ্যামার কথা ভাবি তখন আমি অভিভূত হয়ে যাই। এই সূক্ষ্ম জটিল নানা বিপরীত অনুভূতির টানাপোড়েনে ক্ষতবিক্ষত নারীকে আপনি ছাড়া আর কে এমন সার্থক রূপ দিতে পারত? এই পাপিষ্ঠাকে রবীন্দ্রনাথ আশ্চর্জ ট্রাজিক মহিমা দান করেছেন। কিন্তু আমাদের ও কবির মাঝখানে একজন interpreter আবশ্যক ছ্ল। সেই সুযোগ্য interpreter কণিকা বন্দ্যোপাধ্যায়। আপনার কাছ থেকে আমরা অনেক পেয়েছি।'
(একটি চিঠিতে আবু সয়ীদ আইয়ুব

জোড়াসাঁকো জংশন ও জেনএক্স রকেটপ্যাড-১১

আমারে তুমি অশেষ করেছো....
https://www.youtube.com/watch?v=skLSMZ22V7A
পার্থ দাশগুপ্ত নামে একজন তন্নিষ্ঠ রবীন্দ্রসঙ্গীতপ্রেমী'র লেখায় একটা মন্তব্য পেয়েছিলুম। "....রবীন্দ্রনাথের গানের সর্বকালের সফলতম অনুবাদক হিসেবে আমি যাকে মনে করি, তাঁর নাম সুবিনয় রায়। বুজুর্গরাও বলেন, যদি রবীন্দ্রনাথের গানের শুদ্ধতা আর অন্তর্নিহিত ভাবের হরগৌরী মিলনের সঠিক সুলকসন্ধান পেতে চাও, তাহলে সুবিনয় রায়ের গান শোনো। " পার্থ নিজেকে একযোগে রবীন্দ্রখ্যাপা, হেমন্তখ্যাপা ও সুবিনয়খ্যাপা হিসেবেও ঘোষণা করেছিলেন। উক্তিটা আমি

জোড়াসাঁকো জংশন ও জেনএক্স রকেটপ্যাড-১০

আমায় তাই পরালে মালা, সুরের গন্ধ ঢালা....
-----------------------------------------
"আকাশ যখন চক্ষু বোজে অন্ধকারের শোকে
তখন যেমন সবাই খোঁজে সুচিত্রা মিত্রকে
তেমনি আবার কাটলে আঁধার, সূর্য উঠলে ফের
সবাই মিলে খোঁজ করি কার? সুচিত্রা মিত্রের
তাঁরই গানের জ্যোৎস্নাজলে ভাসাই জীবনখানি
তাইতো তাঁকে শিল্পী বলে, বন্ধু বলে জানি...."
(নীরেন্দ্রনাথ)
প্রিয় শিল্পী হয়ে ওঠার অবশ্যই কিছু ব্যাকরণ থাকে। কিন্তু শিল্পী যখন বন্ধু হয়ে ওঠেন, তখন তাকে যুক্তিগত ব্যাকরণের বাইরে একটা নৈসর্গিক

জোড়াসাঁকো জংশন ও জেনএক্স রকেটপ্যাড-৯

আমি যে গান গেয়েছিলেম, মনে রেখো…।

'.... আমাদের সময়কার কথা আলাদা। তখন কে ছিলো? ঐ তো গুণে গুণে চারজন। জর্জ, কণিকা, হেমন্ত, আমি। কম্পিটিশনের কোনও প্রশ্নই নেই। ' (একটি সাক্ষাৎকারে সুচিত্রা মিত্র)
https://www.youtube.com/watch?v=4vurfNUc77E
বাবার কাছে গল্প শুনেছি। সাতচল্লিশ-আটচল্লিশে সেন্ট পলস কলেজে পড়াকালীন তিনি সেখানে ছাত্রসংগঠনের সাংস্কৃতিক সচিব ছিলেন। সেই সময় ভবানীপুরের দীর্ঘ সুদর্শন ছেলেটি, যে গল্প লেখে ( দেশ পত্রিকাতে ইতোমধ্যে তাঁর গল্প প্রকাশিত হয়ে গেছে) আর আবাল্য বন্ধু 'গা

জোড়াসাঁকো জংশন ও জেনএক্স রকেটপ্যাড-৮

জর্জ ও রবি :'তোমায় বসাই, এ-হেন ঠাঁই ...’
-----------------------------------------------
''.... সেই বাল্যকালে কবে থেকে গান গাইতে শুরু করলাম তা আমার মনেও নেই-- গান গাইছি-তো-গাইছি-তো-গাইছি। কোনো ওস্তাদ অথবা শিক্ষকের কাছে নাড়া বেঁধে বা রীতিমতো লেখাপড়া শেখার মতো করে গান আমি কখনও শিখিনি। ছোটবেলার দিনগুলি থেকে শুরু করে, বড় হয়েও শুধু গান শুনেছি আর গেয়েছি। কোনো সঙ্গীত-শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে গান শিখবার সৌভাগ্য আমার অদৃষ্টে কখনও জোটেনি।''
১৯১১ সালে 'রবিবাবুর গান' শোনার সুযোগ যাঁরা পেতেন, তাঁরা আলো

জোড়াসাঁকো জংশন ও জেনএক্স রকেটপ্যাড-৭

'.... তখন এমনি করেই বাজবে বাঁশি এই নাটে'
https://www.youtube.com/watch?v=WxQ_bsk9PIw
১৯২৭ সালের সেপ্টেম্বর মাসে পঙ্কজকুমারের যখন বছর বাইশ বয়স, তখন কেউ তাঁকে গার্স্টিন প্লেসে রেডিও কোম্পানির দফতরে নিয়ে যান। বৃহত্তর জনতার কাছে পৌঁছোনোর জন্য ইন্ডিয়ান ব্রডকাস্টিং কোম্পানির এই মাধ্যমটিই ছিলো একমাত্র উপায়। যদিও পঙ্কজকুমারের নাড়াবাঁধা গুরু ছিলেন দুর্গাদাস বন্দোপাধ্যায়, কিন্তু দিনু ঠাকুরের সঙ্গে তাঁর যোগাযোগ ছিলো। দিনু ঠাকুর ছিলেন সদাশিব প্রকৃতির মানুষ। কেউ ভালোবেসে রবিবাবুর গান শিখতে চাইলে

জোড়াসাঁকো জংশন ও জেনএক্স রকেটপ্যাড-৬

বাংলায় একটা শব্দ আছে, 'ট্র্যাডিশনাল', অর্থাৎ শিল্পের আদিরূপের প্রতি বিশ্বস্ত থাকার প্রবণতা। আমার কিন্তু মনে হয় 'ঐতিহ্য' ব্যাপারটি নদীর মতো বহমান। তার প্রতিটি ঘাটের নিজস্ব ট্র্যাডিশন রয়েছে এবং সেটা সময় নিরপেক্ষ। তার প্রাসঙ্গিকতা শুধু মানুষের কাছে পৌঁছোতে পারার প্রয়াস থেকেই বিচার্য হওয়া উচিত। গঙ্গোত্রীর ঐতিহ্য বা গঙ্গাসাগরের ঐতিহ্য, দুয়েরই নিজস্ব গরিমা রয়েছে। তাদের সার্থকতা মানুষের তৃষ্ণাকে নিবারণ করতে পারার ক্ষমতা থেকেই নির্ধারিত হয়। এই কথাগুলি এই জন্য মনে এলো যে এই পাঁচজন শিল্পী নিঃসন্দেহে এই অ

জোড়াসাঁকো জংশন ও জেনএক্স রকেটপ্যাড-৫

বিংশ শতকের শুরুতে সম্ভ্রান্ত বাঙালির অন্দরমহলে আরো অনেক কিছুর সঙ্গে রবীন্দ্রসঙ্গীতকে কেন্দ্র করে একটা অন্য ধরনের সামাজিক মন্থনও শুরু হয়েছিলো । অমলা দাশ ছিলেন বিখ্যাত দুর্গামোহন দাশের ভাই ভুবনমোহন দাশের কন্যা ও দেশবন্ধু চিত্তরঞ্জনের ভগ্নী। এছাড়া তিনি ছিলেন কবিপত্নী মৃণালিনী দেবীর ঘনিষ্ট সহেলি। অমলা ও মৃণালিনীর অন্তহীন মেয়েকথার ধারাস্রোত কবিকে প্রেরিত করেছিলো একটি গান রচনা করতে, '' ওলো সই, ওলো সই, আমার ইচ্ছা করে তোদের মতো মনের কথা কই''। ইতোপূর্বে ঠাকুরবাড়ির দুই মেয়ে প্রতিভা ও ইন্দিরা চৌধুরীবা

পয়লা বৈশাখ : একটি অনার্য অডিসি

প্রশ্নটা উঠতে দেখেছিলুম যখন বাংলা ১৪০০ সন এসে দুয়ারে কড়া নাড়ছিল। সিকি শতাব্দী আগে। তখন আমরা মত্ত ছিলুম কুসুমচয়নে। নব নব অনুষ্ঠান চারিদিকে। সঙ্গীত-সাহিত্য-ইতিহাস-পরিবেশ থেকে খুঁজে নিচ্ছিলুম ‘বাঙালিয়ানা’র সূত্রগুলি নতুন করে। কবি ভেবেছিলেন ১৪০০ সনে তাঁর লেখা সবাই ভুলে যাবে। দেখা গেল তাঁর লেখার কথা অনেকটা ভুলে গেলেও নামটাকে কেউ ভোলেনি। বাঙালিদের মতো কে আর মানে, ‘কলৌ নামৈব কেবলম।’ সবাই খোঁজে নিজের শিকড়। কিন্তু বাঙালিদের মতো আত্মপরিচয় খুঁজতে ব্যাকুল জাতি আমি ভারতবর্ষে আর দেখিনি। আসলে আমাদের পূর্বপুরুষ
>> লেখকের আরও পুরোনো লেখা >>

এদিক সেদিক যা বলছেনঃ

09 Jul 2019 -- 02:33 PM:মন্তব্য করেছেন
গানটাও থাক, https://www.youtube.com/watch?v=iO_Ib3dC_eI
08 Jul 2019 -- 08:40 PM:মন্তব্য করেছেন
কল্লোলদা, কণিকা অতুলপ্রসাদ এবং নজরুলের গান রেকর্ড করেছিলেন। করেছিলেন কীর্তন ও বেশ কয়েকটি ভজ ...
07 Jul 2019 -- 09:29 PM:মন্তব্য করেছেন
খুব ভালো লাগলো। এপাতায় শুচিস্মিতার লেখাটিও মনে গেলো। বাকেট লিস্টিতে আছে, কিন্তু কবে যা ...
07 Jul 2019 -- 04:13 PM:মন্তব্য করেছেন
তাঁকে বাদ দিতে গেলে রবীন্দ্রসঙ্গীত আমাদের অচেনা একটা প্রপঞ্চ হয়ে যাবে। এই শিল্পধারাটির সঙ্গে এভাবে ও ...
29 Jun 2019 -- 12:04 PM:মন্তব্য করেছেন
একধরনের ফিরে আসা। চেনা শহরের কাছে....
29 Jun 2019 -- 12:02 PM:মন্তব্য করেছেন
মজা বা মজন্তালি, যাই হোক না কেন, ইহা সত্য। কিন্তু এতো আমাদের প্রজন্মের গল্প। এখনও কি এরকমই? আমাদের ম ...
28 Jun 2019 -- 11:15 AM:মন্তব্য করেছেন
@কল্লোলদা, শিল্প হিসেবে রবীন্দ্রসঙ্গীতের এই মুহূর্তে তোমার মতো 'সঙ্গীত অশিক্ষিত'দের মূল্যায়ণ বড়ো ...
23 Jun 2019 -- 11:08 PM:মন্তব্য করেছেন
বাল্যকালে বাবা-মা'র থেকে রবীন্দ্রসঙ্গীত শুনতে শেখার প্রাথমিক পর্বটি শেষ হতে গুরু ধরেছিলুম এঁকে। এই ...
16 Jun 2019 -- 01:02 PM:মন্তব্য করেছেন
স্বভাবের বিরুদ্ধে গিয়ে আমি এই লেখকের কোনও লেখা পড়ার সময় 'কাটাছেঁড়া'র সহজ প্রণালীটি মুলতুবি রাখি। কার ...
15 Jun 2019 -- 11:59 PM:মন্তব্য করেছেন
বাহ...
15 Jun 2019 -- 11:23 AM:মন্তব্য করেছেন
এটা ঘটনা, বস্তুস্থিতি। আলাদা করে মনে করার অবকাশ নেই। প্রাত্যহিক বাস্তবতা...
09 Jun 2019 -- 12:58 PM:মন্তব্য করেছেন
রবীন্দ্রসঙ্গীতের যদি কোনও আত্মা থাকে, তবে তাকে সর্বস্ব দিয়ে নিজের জীবনে ফুটিয়ে তোলা, শ্রোতার যাপনের ...
07 Jun 2019 -- 01:04 PM:মন্তব্য করেছেন
@Ishan, 'এটা হতেই পারে। সেটা নিয়ে বলা দরকার।' অন্য জায়গার কথা বলতে পারিনা, তবে আমা ...
07 Jun 2019 -- 12:53 AM:মন্তব্য করেছেন
অনেকে আলোচনা করেছেন। জ্ঞানবুদ্ধিমত আমার কথা কিছু লিখি, @de, "ভাষার আগ্রাসন কেন্দ্রীয় সর ...
05 Jun 2019 -- 11:10 PM:মন্তব্য করেছেন
ভারি ভালো লাগলো। সৎ লেখা। হায় হায়দরাবাদ, এই দিনটিতে তোমায় ভুলে থাকতে পারিনা....
05 Jun 2019 -- 01:05 PM:মন্তব্য করেছেন
@Ishan, 'প্রমাদ' বলতে এখানে 'মাতৃভাষা' বা Mother tongue শব্দটি ব্যবহার করা। কিন্তু তাতে বস ...
04 Jun 2019 -- 09:02 PM:মন্তব্য করেছেন
গ্রহণযোগ্য বিশ্লেষণ এবং ইতিবাচক আলোচনা। এই মুহূর্তে বড়ো প্রয়োজন আত্ম আবিষ্কারের অনুশীলনটুকু।
30 May 2019 -- 10:35 AM:মন্তব্য করেছেন
@কুশান, 'বাঙালি মনন' নামে কোনও ধ্রুব মানসিকতা কখনই ছিলোনা, এখনও নেই। তাই হেমন্তের গ্রহণযোগ্যতা ন ...
30 May 2019 -- 10:15 AM:মন্তব্য করেছেন
@পৃথা কুণ্ডু, লেখাটি এই লিংক থেকে নিতে পারেন। লেখাটি যদি বইয়ে প্রকাশিত হয়, জানতে পারলে ভালো লাগব ...
24 May 2019 -- 10:27 PM:মন্তব্য করেছেন
Popular না Pristine? কেমন হবে রবীন্দ্রসঙ্গীত? কোন স্তরের শ্রোতার কাছে গ্রহণযোগ্য বোধ হলে রবীন্দ্রসঙ্ ...