জান্নাতুল ফেরদৌস লাবণ্য RSS feed

জান্নাতুল ফেরদৌস লাবণ্যের খেরোর খাতা।

আরও পড়ুন...
সাম্প্রতিক লেখালিখি RSS feed
  • দক্ষিণের কড়চা
    গরু বাগদির মর্মরহস্য➡️মাঝে কেবল একটি একক বাঁশের সাঁকো। তার দোসর আরেকটি ধরার বাঁশ লম্বালম্বি। সাঁকোর নিচে অতিদূর জ্বরের মতো পাতলা একটি খাল নিজের গায়ে কচুরিপানার চাদর জড়িয়ে রুগ্ন বহুকাল। খালটি জলনিকাশির। ঘোর বর্ষায় ফুলে ফেঁপে ওঠে পচা লাশের মতো। যেহেতু এই ...
  • বাংলায় এনআরসি ?
    বাংলায় শেষমেস এনআরসি হবে, না হবে না, জানি না। তবে গ্রামের সাধারণ নিরক্ষর মানুষের মনে তীব্র আতঙ্ক ছড়িয়েছে। আজ ব্লক অফিসে গেছিলাম। দেখে তাজ্জব! এত এত মানু্ষের রেশন কার্ডে ভুল! কয়েকজনের সাথে কথা বলে জানলাম প্রায় সবার ভোটারেও ভুল। সব আইকার্ড নির্ভুল আছে এমন ...
  • যান্ত্রিক বিপিন
    (১)বিপিন বাবু সোদপুর থেকে ডি এন ৪৬ ধরবেন। প্রতিদিন’ই ধরেন। গত তিন-চার বছর ধরে এটাই বিপিন’বাবুর অফিস যাওয়ার রুট। হিতাচি এসি কোম্পানীর সিনিয়র টেকনিশিয়ন, বয়েস আটান্ন। এত বেশী বয়েসে বাড়ি বাড়ি ঘুরে এসি সার্ভিসিং করা, ইন্সটল করা একটু চাপ।ভুল বললাম, অনেকটাই চাপ। ...
  • কাইট রানার ও তার বাপের গল্প
    গত তিন বছর ধরে ছেলের খুব ঘুড়ি ওড়ানোর শখ। গত দুবার আমাকে দিয়ে ঘুড়ি লাটাই কিনিয়েছে কিন্তু ওড়াতে পারেনা - কায়দা করার আগেই ঘুড়ি ছিঁড়ে যায়। গত বছর আমাকে নিয়ে ছাদে গেছিল কিন্তু এই ব্যপারে আমিও তথৈবচ - ছোটবেলায় মাথায় ঢুকিয়ে দেওয়া হয়েছিল ঘুড়ি ওড়ানো "বদ ছেলে" দের ...
  • কুচু-মনা উপাখ্যান
    ১৯৮৩ সনের মাঝামাঝি অকস্মাৎ আমাদের বিদ্যালয়ের ষষ্ঠ(ক) শ্রেণী দুই দলে বিভক্ত হইয়া গেল।এতদিন ক্লাসে নিরঙ্কুশ তথা একচ্ছত্র আধিপত্য বিস্তার করিয়া ছিল কুচু। কুচুর ভাল নাম কচ কুমার অধিকারী। সে ক্লাসে স্বীয় মহিমায় প্রভূত জনপ্রিয়তা অর্জন করিয়াছিল। একটি গান অবিকল ...
  • 'আইনি পথে' অর্জিত অধিকার হরণ
    ফ্যাসিস্ট শাসন কায়েম ও কর্পোরেট পুঁজির স্বার্থে, দীর্ঘসংগ্রামে অর্জিত অধিকার সমূহকে মোদী সরকার হরণ করছে— আলোচনা করলেন রতন গায়েন। দেশে নয়া উদারবাদী অর্থনীতি লাগু হওয়ার পর থেকেই দক্ষিণপন্থার সুদিন সূচিত হয়েছে। তথাপি ১৯৯০-২০১৪-র মধ্যবর্তী সময়ে ...
  • সম্পাদকীয়-- অর্থনৈতিক সংকটের স্বরূপ
    মোদীর সিংহগর্জন আর অর্থনৈতিক সংকটের তীব্রতাকে চাপা দিয়ে রাখতে পারছে না। অর্থমন্ত্রী নির্মলা সীতারামন শেষ পর্যন্ত স্বীকার করতে বাধ্য হয়েছেন যে ভারতের অর্থনীতি সংকটের সম্মুখীন হয়েছে। সংকট কতটা গভীর সেটা তার স্বীকারোক্তিতে ধরা পড়েনি। ধরা পড়েনি এই নির্মম ...
  • কাশ্মীরি পন্ডিত বিতাড়নঃ মিথ, ইতিহাস ও রাজনীতি
    কাশ্মীরে ডোগরা রাজত্ব প্রতিষ্ঠিত হবার পর তাদের আত্মীয় পরিজনেরা কাশ্মীর উপত্যকায় বসতি শুরু করে। কাশ্মীরি ব্রাহ্মণ সম্প্রদায়ের মানুষেরাও ছিলেন। এরা শিক্ষিত উচ্চ মধ্যবিত্ত ও মধ্যবিত্ত শ্রেনি। দেশভাগের পরেও এদের ছেলেমেয়েরা স্কুল কলেজে পড়াশোনা করেছে। অন্যদিকে ...
  • নিকানো উঠোনে ঝরে রোদ
    "তেরশত নদী শুধায় আমাকে, কোথা থেকে তুমি এলে ?আমি তো এসেছি চর্যাপদের অক্ষরগুলো থেকে ..."সেই অক্ষরগুলোকে ধরার আরেকটা অক্ষম চেষ্টা, আমার নতুন লেখায় ... এক বন্ধু অনেকদিন আগে বলেছিলো, 'আঙ্গুলের গভীর বন্দর থেকে যে নৌকোগুলো ছাড়ে সেগুলো ঠিক-ই গন্তব্যে পৌঁছে যায়' ...
  • খানাকুল - ২
    [এর আগে - https://www.guruchan...


বইমেলা হোক বা নাহোক চটপট নামিয়ে নিন রঙচঙে হাতে গরম গুরুর গাইড ।

Take love

জান্নাতুল ফেরদৌস লাবণ্য

জন্মদিনে সবার আগে যেটা হয় সেটা হচ্ছে টাইমলাইন আর ইনবক্স জুড়ে জন্মদিনের শুভেচ্ছাগুলোর জবাব দিতে দিতে প্রাণ যায় যায় অবস্থা। রিপ্লাই দিতে দিতে একপর্যায়ে নিজেকে মানসিক রোগী মনে হতে থাকে।
যাইহোক,সবাই ভালোবেসে শুভেচ্ছা জানায় জবাব না দেয়াটাও বেয়াদবি ভেবে আমি সবার আগে যেটা করি, many many thanks,take love... লিখে সেটা কপি করে রেখে দিই,সবাইকে এক‌ই রিপ্লাই দিয়ে দেয়া। এরকম করতে গিয়ে যে যে বিপদে পড়লাম তা নিম্নরূপ:

বাইরে আছি। আব্বু মেসেজ দিয়েছেন, কখন আসবি?

আমি মেসেজ না দেখেই রিপ্লাই পাঠিয়ে দিলাম, Many many thanks,take love..

আব্বু আবার মেসেজ দিলেন, হারামজাদা,আমি বলছি বাড়ি কখন আসবি? 😡

-Many many thanks,take love...

আব্বু- বাড়ি আয় আজ জুতিয়ে আমি তোর..

আমি- Many many thanks,take love...

এরপর ভাবী মেসেজ দিলো, আসার সময় আমার জন্য এক প্যাকেট রাঁধুনি হলুদ গুঁড়া নিয়ে আসতে পারবা?

আমি রিপ্লাই দিলাম,Many many thanks,take love...

ভাবী আবার বললো, কিসের thanks? এক প্যাকেট হলুদ গুঁড়া নিয়ে এসো।

আমি- Many many thanks,take love...

ভাবী- ধূরো ছাতা!‌

এরপর কি মনে করে পাশের বাসার আন্টি শুভেচ্ছা জানিয়ে উইশ করলেন। পাশের বাসার আন্টিগুলো একটু কুটনী টাইপের হবে এটা অনেকটা চিরন্তন সত্য। যাইহোক তিনি মেসেজ দিয়েছেন,

জন্মদিনের শুভেচ্ছা লাবণ্য।

আমি- Many many thanks,take love...

আন্টি-তারপর? বয়সতো ভালোই হয়েছে,বিয়েটিয়ে কবে করবা?

আমি- Many many thanks,take love...

আন্টি- সেদিন দেখলাম ফটোকপির দোকানের সামনে একটা ছেলের সাথে কথা বলছিলে! ক্লাসমেট নাকি বয়ফ্রেন্ড? আমাকে বলতে পারো,ভাবী হ‌ই আমি তোমার! ছেলেটা সুন্দর ছিল.. কতদিনের প্রেম?

আমি- Many many thanks,take love...

আন্টি: hello,are you there? 😕

আমি -Many many thanks,take love...

আন্টি- তোমার কি কোনো মানসিক সমস্যা আছে লাবণ্য? এমনিতেও আমার মাঝেমধ্যে মনে হয়। তুমি কেমন জানি উল্টাপাল্টা কথাবার্তা বলো, তারপর এইযে তোমার এখনো বিয়ে দিচ্ছে না। আসলে কি কোনো সমস্যা আছে তোমার?

আমি-Many many thanks,take love...

আন্টি একটা লাইক দিলেন।

আমি আবার লিখলাম, Many many thanks,take love...

বাসায় এলাম। পারিবারিকভাবে কিছু গালাগালি হজম করে দুপুরে গোসল করে খেয়েদেয়ে শুয়ে আছি এমন সময়ে আমার হবু বরের মেসেজ এলো, এই ছেলেটাকে হবু বর বলার কারণ এর সাথে গত দেড় সপ্তাহ ধরে আমার বিয়ের কথাবার্তা চলছে, যদিও এখনো কিছু ফাইনাল না আর এর আগে এই ছেলে কখনো আমাকে কল বা মেসেজ দেয়নি। কি মনে করে আজকেই মেসেজ দিয়েছে,

Labonno,I am sorry

আমি রিপ্লাই দিলাম,Many many thanks,take love...

সে আবার বললো, তোমাকে বিয়ে করা আমার পক্ষে সম্ভব না, আমার ফ্যামিলি যদিও চায়।

আমি-Many many thanks,take love...

সে- দেখো,আমি অনেকদিন থেকেই একটা মেয়েকে খুব ভালোবাসি,সে রাজি হচ্ছিলো না। তবে তোমার সাথে আমার বিয়ের কথা চলছে শোনার পর সে এখন হাউমাউ করে আমার কাছে ছুটে এসেছে।সেও আসলে আমাকে ভালোবাসে।

আমি- Many many thanks,take love...

সে- এইগুলো কি বলছো বারবার? দেখো,আমি জানি তুমি শক পেয়েছো, পাগলের মতো আচরণ করো না।

আমি- Many many thanks,take love...

সে- বিয়ে একটা সারাজীবনের কমিটমেন্ট। একজনের সাথে সারাজীবনের পথচলা। যাকে ভালোবাসি সেই যদি পাশে না থাকে জীবন মরুভূমি। তোমার সাথে আমার বিয়ে হলে তিনটা জীবন নষ্ট হয়ে যাবে।

আমি- Many many thanks,take love...

সে- দেখো লাবণ্য,তুমি আমার চেয়ে বেটার কাউকে ডিজার্ভ করো।

আমি- Many many thanks,take love...

সে আর কথা বললো না। সে ধরেই নিয়েছে আমি শক পেয়ে পাগল হয়ে গেছি।

এরপর জন্মদিনের রাতে সেই অসম্ভবটি সম্ভব হলো। যে ছেলেটার পেছনে সাতবছর ধরে ট্রাই করছি সে মেসেজ দিলো।

Happy birthday

আমি- Many many thanks,take love...

সে- দেখো, তোমাকে একটা কথা বলতে চাই, আমি জানি তুমি আমাকে ভালোবাসো,আমার‌ও তোমাকে ভালো লাগে। আগেই বলতাম, ভাবলাম জন্মদিনের দিন সারপ্রাইজ দিই। আমি জানি আমাকে পাওয়াটাই তোমার জীবনের বেস্ট বার্থডে গিফট হবে।

আমি-Many many thanks,take love...

সে- will u marry me Labonno?

আমি- Many many thanks,take love...

সে- আমি কি বলছি আর তুমি কি বলছো!

আমি- Many many thanks,take love...

সে- সত্যি করে বলোতো তুমি কি আমাকে এখন আর ভালোবাসো না?

আমি- Many many thanks,take love...

সে- shut up! উড়া উড়া শুনছি তোমার নাকি বিয়ে? আমিতো বিশ্বাস করেছিলাম না। আমার ধারণা ছিলো তুমি আমাকে ছেড়ে অন্য কাউকে বিয়ে করতে রাজিই হবে না।

আমি- Many many thanks, take love....

সে- তবে কি আমি দেরী করে ফেললাম? এখন আর তোমার হৃদয়ে আমার জন্য কোনো জায়গা নেই? তবে কি তুমি এখন তাকে ভালোবাসো?

আমি- Many many thanks,take love...

সে- আমি সবসময়ই তোমার ভালো চাই। হয়তো আমি দেরী করে ফেলেছি! ঐ ছেলেটাকে নিয়ে তুমি সুখী হ‌ও লাবন্য!

আমি- Many many thanks,take love...

সে- have a happy life with him!

আমি- Many many thanks,take love...

জন্মদিনের দুইদিন পর আমি Many many thanks,take love... চক্রগুহ থেকে বেরিয়েছি। ক্রাশের ইনবক্সে ঢুকে মেসেজগুলো দেখে আমি আঁতকে উঠলাম। তাড়াতাড়ি তাকে মেসেজ দিলাম,

শুনুন! আসলে আমার সেদিন একটু ভুল হয়ে গেছে। আসলে... আছেন আপনি? কল দেই?

সে Many many thanks,take love... রিপ্লাই দিয়ে ব্লক দিয়ে দিলো।

#Many_many_thanks_take_love

539 বার পঠিত (সেপ্টেম্বর ২০১৮ থেকে)

শেয়ার করুন


Avatar: Muhammad Sadequzzaman Sharif

Re: Take love

Many many thanks, take love =D
Avatar: Amit

Re: Take love

🤣🤣🤣
Avatar: বিপ্লব রহমান

Re: Take love

কাম সারছে! 🤣🤣🤣
Avatar: জান্নাতুল ফেরদৌস লাবণ্য

Re: Take love

ঃ))


আপনার মতামত দেবার জন্য নিচের যেকোনো একটি লিংকে ক্লিক করুন