বিপ্লব রহমান RSS feed

[email protected]
বিপ্লব রহমানের ভাবনার জগৎ

আরও পড়ুন...
সাম্প্রতিক লেখালিখি RSS feed
  • দক্ষিণের কড়চা
    গরু বাগদির মর্মরহস্য➡️মাঝে কেবল একটি একক বাঁশের সাঁকো। তার দোসর আরেকটি ধরার বাঁশ লম্বালম্বি। সাঁকোর নিচে অতিদূর জ্বরের মতো পাতলা একটি খাল নিজের গায়ে কচুরিপানার চাদর জড়িয়ে রুগ্ন বহুকাল। খালটি জলনিকাশির। ঘোর বর্ষায় ফুলে ফেঁপে ওঠে পচা লাশের মতো। যেহেতু এই ...
  • বাংলায় এনআরসি ?
    বাংলায় শেষমেস এনআরসি হবে, না হবে না, জানি না। তবে গ্রামের সাধারণ নিরক্ষর মানুষের মনে তীব্র আতঙ্ক ছড়িয়েছে। আজ ব্লক অফিসে গেছিলাম। দেখে তাজ্জব! এত এত মানু্ষের রেশন কার্ডে ভুল! কয়েকজনের সাথে কথা বলে জানলাম প্রায় সবার ভোটারেও ভুল। সব আইকার্ড নির্ভুল আছে এমন ...
  • যান্ত্রিক বিপিন
    (১)বিপিন বাবু সোদপুর থেকে ডি এন ৪৬ ধরবেন। প্রতিদিন’ই ধরেন। গত তিন-চার বছর ধরে এটাই বিপিন’বাবুর অফিস যাওয়ার রুট। হিতাচি এসি কোম্পানীর সিনিয়র টেকনিশিয়ন, বয়েস আটান্ন। এত বেশী বয়েসে বাড়ি বাড়ি ঘুরে এসি সার্ভিসিং করা, ইন্সটল করা একটু চাপ।ভুল বললাম, অনেকটাই চাপ। ...
  • কাইট রানার ও তার বাপের গল্প
    গত তিন বছর ধরে ছেলের খুব ঘুড়ি ওড়ানোর শখ। গত দুবার আমাকে দিয়ে ঘুড়ি লাটাই কিনিয়েছে কিন্তু ওড়াতে পারেনা - কায়দা করার আগেই ঘুড়ি ছিঁড়ে যায়। গত বছর আমাকে নিয়ে ছাদে গেছিল কিন্তু এই ব্যপারে আমিও তথৈবচ - ছোটবেলায় মাথায় ঢুকিয়ে দেওয়া হয়েছিল ঘুড়ি ওড়ানো "বদ ছেলে" দের ...
  • কুচু-মনা উপাখ্যান
    ১৯৮৩ সনের মাঝামাঝি অকস্মাৎ আমাদের বিদ্যালয়ের ষষ্ঠ(ক) শ্রেণী দুই দলে বিভক্ত হইয়া গেল।এতদিন ক্লাসে নিরঙ্কুশ তথা একচ্ছত্র আধিপত্য বিস্তার করিয়া ছিল কুচু। কুচুর ভাল নাম কচ কুমার অধিকারী। সে ক্লাসে স্বীয় মহিমায় প্রভূত জনপ্রিয়তা অর্জন করিয়াছিল। একটি গান অবিকল ...
  • 'আইনি পথে' অর্জিত অধিকার হরণ
    ফ্যাসিস্ট শাসন কায়েম ও কর্পোরেট পুঁজির স্বার্থে, দীর্ঘসংগ্রামে অর্জিত অধিকার সমূহকে মোদী সরকার হরণ করছে— আলোচনা করলেন রতন গায়েন। দেশে নয়া উদারবাদী অর্থনীতি লাগু হওয়ার পর থেকেই দক্ষিণপন্থার সুদিন সূচিত হয়েছে। তথাপি ১৯৯০-২০১৪-র মধ্যবর্তী সময়ে ...
  • সম্পাদকীয়-- অর্থনৈতিক সংকটের স্বরূপ
    মোদীর সিংহগর্জন আর অর্থনৈতিক সংকটের তীব্রতাকে চাপা দিয়ে রাখতে পারছে না। অর্থমন্ত্রী নির্মলা সীতারামন শেষ পর্যন্ত স্বীকার করতে বাধ্য হয়েছেন যে ভারতের অর্থনীতি সংকটের সম্মুখীন হয়েছে। সংকট কতটা গভীর সেটা তার স্বীকারোক্তিতে ধরা পড়েনি। ধরা পড়েনি এই নির্মম ...
  • কাশ্মীরি পন্ডিত বিতাড়নঃ মিথ, ইতিহাস ও রাজনীতি
    কাশ্মীরে ডোগরা রাজত্ব প্রতিষ্ঠিত হবার পর তাদের আত্মীয় পরিজনেরা কাশ্মীর উপত্যকায় বসতি শুরু করে। কাশ্মীরি ব্রাহ্মণ সম্প্রদায়ের মানুষেরাও ছিলেন। এরা শিক্ষিত উচ্চ মধ্যবিত্ত ও মধ্যবিত্ত শ্রেনি। দেশভাগের পরেও এদের ছেলেমেয়েরা স্কুল কলেজে পড়াশোনা করেছে। অন্যদিকে ...
  • নিকানো উঠোনে ঝরে রোদ
    "তেরশত নদী শুধায় আমাকে, কোথা থেকে তুমি এলে ?আমি তো এসেছি চর্যাপদের অক্ষরগুলো থেকে ..."সেই অক্ষরগুলোকে ধরার আরেকটা অক্ষম চেষ্টা, আমার নতুন লেখায় ... এক বন্ধু অনেকদিন আগে বলেছিলো, 'আঙ্গুলের গভীর বন্দর থেকে যে নৌকোগুলো ছাড়ে সেগুলো ঠিক-ই গন্তব্যে পৌঁছে যায়' ...
  • খানাকুল - ২
    [এর আগে - https://www.guruchan...


বইমেলা হোক বা নাহোক চটপট নামিয়ে নিন রঙচঙে হাতে গরম গুরুর গাইড ।

বাংলা ব্লগের অপশব্দসমূহ ~

বিপ্লব রহমান

*সংবিধিবদ্ধ সতর্কীকরণ: বাংলা ব্লগে অনেক সময়ই আমরা যে সব সাংকেতিক ভাষা ব্যবহার করি, তা কখনো কখনো কিম্ভুদ হয়ে দাঁড়ায়। নতুন ব্লগার বা সাধারণের কাছে এসব অপশব্দ পরিচিত নয়। এই চিন্তা থেকে এই নোটে বাংলা ব্লগের কিছু অপশব্দ তর্জমাসহ উপস্থাপন করা হচ্ছে।

বলা ভালো, এটি মোটেই কোনো গূঢ় গবেষণাকর্ম নয়। নিছকই ব্লগাড্ডা মাত্র। তবে রীতিমত প্রাপ্তমনস্কদের জন্য লেখা।

ভাটিয়া৯ র প্রচলিত অপশব্দ যোগ করে নোটটির শ্রীবৃদ্ধির জন্য জনতার কাছে আবেদন রইল।

হ্যাপি ব্লগিং। 😎
---
১। ছাগু = ছাগলের সংক্ষিপ্ত রূপ। একটি বিশেষ গোষ্ঠিকে (যেমন তিন বাহু গং) বোঝায়। মগবাজারকে মক্কা শরীফ মনে করে তারা আমোদিত হয়। মতান্তরে, চাড্ডি, বাছুর, বকনা।

২। হিতা = হিযবুত তাহরীর। মডারেট জঙ্গি ইসলাম ; অধুনা নিষিদ্ধ। তবে নানান ছদ্মবেশে ব্লগে তাদের আনাগোনা আছে।

৩। গদাম! = পশ্চাদে পদাঘাত। সাধারণত ছাগু তাড়াতে প্রযোজ্য।

৪। লাদি = ছাগু/ চাড্ডির পোস্ট বা মন্তব্য।

৫। ম্যাৎকার = ছাগু/ চাড্ডিদের একক বা সম্মিলিত রব।

৬। কাঁঠাল পাতা = ছাগু/চাড্ডি কে আপ্যায়নের (?) ভাষা বিশেষ। ইদানিং উঠেছে, কাঁঠাল পাতার ইমোকটিন যোগ করার।

৭। ধনে পাতা = ধন্যবাদ। মতান্তরে, ধইন্যা, গুরুচণ্ডা৯ তে, ধনযোগ।

৮। হা হা প গে = হাসতে হাসতে পড়ে গেলাম। মতান্তরে, হা হা ম গে = হাসতে হাসতে মরে গেলাম।

৯। রেসিডেন্ট ভাঁড় = রাজ-রাজরার আমলের ভাঁড়দের মতো ব্লগের স্থায়ী বিনোদন হিসেবে পরিচিত বিশেষ প্রজাতির ব্লগার । যেমন, মুখফোড়

১০। মাইনাস = বাজে লেখা বা মন্তব্য বোঝাতে ব্যবহৃত হয়। যেমন, সাবেক ব্লগার ডা . আইজু বলেন, বা-ছা পোস্টে ডাবল মাইনাস! লেখায় এক তাঁরকা চিহ্ন দিলেও মাইনাসই বোঝায়।

১১। তাঁরাইলাম = উত্তম লেখা বা প্রসংশাসূচক মন্তব্য। পাঁচ তাঁরা বা প্লাস চিহ্ন দিয়ে লেখাটিকে সর্বোচ্চ রেটিং করা হয়।

১২। হ = ঠিক তাই।

১৩। ঞঁ! = বলে কি রে! মতান্তরে, কস্কী মমিন?

১৪। উঁ = যখন আর কিছুই বলা যাচ্ছে না। সহব্লগার আরিফ জেবতিক এর প্রবক্তা।

১৫। ছিক! = ছি: কথাটির ভিন্নরূপ। দুষ্টুমী করে বলা হচ্ছে।

১৬। অশ্লিষ = অশ্লিল লেখা বা মন্তব্য। দুষ্টুমী করে বলা হচ্ছে।

১৭। কাফি = ব্লগারের অন্তিম পরিনতির উদাহরণ বিশেষ।

১৮। বিপ্লব = লেখায় পাঁচ তাঁরা। মতান্তরে, আপনাকে বিপ্লব।

১৯। চুলকাইতে মুঞ্চায়? = অন্যকে উত্যাক্ত করতে ইচ্ছে করছে কী না, তা বোঝাতে।

২০। আছছালামু আলাইকুম = কহিনুল্লাহ। মতান্তরে, বঙ্গদেশ, সকলে ছহি ছালামতে থাকবেন - ইত্যাদি।

২১। পপকর্ন নিয়ে গ্যালারিতে বসলাম = ব্লগ বিতর্ক উপভোগ করছি, মতান্তরে, মজা দেখছি।

২২। জাঁঝা = উত্তম, লেখা বা মন্তব্য ভালো হয়েছে বোঝাতে।

২৩। সুশীল = অতিশয় আঁতেল অর্থে। যেমন, এই ধেনু যাহ, নইলে ফুল ছুঁড়ে মারবো কিন্তু। অখবা, সুশীল ব্লগ = সাহেব বাবুর বৈঠকখানা বিশেষ।

২৪। লুল বা লুল পুরুষ = বালিকা, নাবালিকা দেখলেই লালা ঝড়ে, এমন ব্লগার। উদাহরণ, এক মহারথী নারীলিপ্সু ব্লগার তার প্রোফাইলে ঘোষণা দেন, সুন্দরী বালিকা পেলে যত্ন করে কামড়ে দেই! ইদানিং ব্লগে 'লুল পুরুষ' ইমোকটিন যোগ করার দাবি উঠেছে।

২৫। সিটিএন = ইয়ের টাইম নাই, কোনো ব্লগারের সঙ্গে বাদানুবাদে না জড়ানোর ইচ্ছা প্রকাশে তীব্র ঘৃণায় এটি বলা হচ্ছে।

২৬। পিটিএন = পোছার টাইম নাই, কোনো ব্লগারের সঙ্গে বাদানুবাদে না জড়ানোর ইচ্ছা প্রকাশে তীব্র ঘৃণায় এটি বলা হচ্ছে।

২৭। ডিজিএম = দূরে গিয়া মর।

২৮। মফিজ = এলেবেলে ধরণের সাধারণ জন।

২৯। ভাঁজ খুইল্যা গেছে = আসল রূপ ধরা পড়েছে।

৩০। বাঁচাও কালা কুদ্দুস = ছেঁড়ে দে মা কেঁদে বাঁচি -- এমন অর্থে। সাধারণতা উল্টো-পাল্টা মন্তব্য দেখলে এটি ব্যবহার করা হয়। সহব্লগার কারিমাট এর প্রবক্তা।

৩১। বুথে আয় বায়তুল = আবেগ সামাল দিন। লেখা বা মন্তব্যে মাত্রাতিরিক্ত আবেগের রাশ টেনে ধরতে বলা হচ্ছে।

৩২। চ্রম = চরম শব্দটির অপভ্রংশ। যেমন, চ্রম হৈছে -- বলতে লেখা বা মন্তব্যটি অসাধারণ হয়েছে বোঝায়।

৩৩। জটিল = খুব ভালো, মতান্তরে জট্টিল বা জটিলস = খুব ভালো লেখা বা মন্তব্য, এমন বোঝাতে।

৩৪। খ্যাক খ্যাক = হাসি, দুষ্টুমী করে বলা হচ্ছে।

৩৫। খিকজ = হাসি, দুষ্টুমী করে বলা হচ্ছে।

৩৬। অহম = গলা খাক্কারী, দুষ্টুমী করে বলা হচ্ছে।

৩৭। বিয়াফক = ব্যাপক, বেশ হয়েছে -- এমন বোঝাতে।

৩৮। মুঞ্চায় = মন চায়, মন চাইছে -- অর্থে। মতান্তরে, মন্‌চায়।

৩৯। কোবতে = কবিতা, দুষ্টুমী করে বলা হচ্ছে।

৪০। ভাদা = ভারতের দালাল।

৪১। পৈতা টেষ্ট = ভারতের দালাল সনাক্তের ব্লগীয় পরীক্ষা।

৪২। পাদা = পাকিস্তানী দালাল।

৪৩। কিপিটাপ = কিপ ইট আপ, চলুক -- এমন বোঝাতে।

৪৪। কস্কী মমিন? = বলে কি রে!

৪৫। আলু পোড়া = মজা দেখতে আসা, যেমন, এই পোস্টে কী আলু পোড়া খাইতে আইছেন?

৪৬। ব্লগাইতাছি = ব্লগিং করছি।

৪৭। কট = ধরা খাওয়া।

৪৮। জোশিলা হৈছে = খুব ভাল হয়েছে, এমন বোঝাতে।

৪৯। মডু = মডারেটর।

৫০। সঞ্জু = সঞ্চালক।

৫১। আমু = আমারব্লগ ডটকম।

৫২। সামু = সামহোয়ার ইনব্লগ ডটনেট।

৫৩। সচু = সচলায়তন ডটকম।

৫৪। আলু = প্রথমআলো ব্লগ ডটকম।

৫৫। নাগু ব্লগ = নাগরিক ব্লগ ডটকম।

৫৬। টেকি = টেকনোলজি।

৫৭। টেকি কানা = প্রযুক্তি বিষয়ক অজ্ঞ।

৫৮। ফেকি = ফেক নিক বা ভূয়া নামের ব্লগার।

৫৯। গিলমান = নির্লজ্জ জামাতি সমর্থক।

৬০। খুব খিয়াল কৈরা = ভাল করে পড়ুন বা লক্ষ্য করুন -- এমন বোঝাতে।

৬১। সেরাম হৈছে = সেই রকম হয়েছে, খুব ভালো হয়েছে -- এমন অর্থে।

৬২। ওয়েটান = আপেক্ষা করেন।

৬৩। থাপ্রামু = থাপ্পড় দেব।

৬৪। হুঁদাই = অযথায়।

৬৫। কেপি টেষ্ট = কাঁঠাল পাতা পরীক্ষা।

৬৬। কমেন্টানো = মন্তব্য করা।

৬৭। ডট ( . ) = আইকিউ।

৬৮। প্লাচানো = প্লাস দেওয়া, মতান্তরে যোগাইলাম।

৬৯। দেক্তারেন = দেখতে পারেন।

৭০। কাগুরে চা চু দে = সহব্লগারকে সম্ভাষণ জানাতে বলা হচ্ছে।

৭১। ইনপুট কাঁঠাল পাতা আউটপুট লাদি = পুরোটাই বাজে লেখা বা মন্তব্য।

৭২। হরিদাস পাল = এলেবেলে ধরণের ব্লগার বোঝাতে, সাবেক ব্লগার ডা. আইজুদ্দীন যেমন বলেন, ব্লগ ভরিয়া গেলো হরিদাস পালে। গুরুচণ্ডা৯ তে হরিদাস পালেরাই চালিকা শক্তি। 💔

৭৩। ভুকে আয় ভাভুল = তীব্র সহমত প্রকাশে ব্যাবহার করা হয়।

৭৪। বা * ছা *= সারবত্বা হীন লেখা বা মন্তব্য, সহব্লগার ডা . আইজু এটি প্রায়ই ব্যবহার করেন।

৭৫। বাঙ্গী ফাটানো = অসাধারণ লেখা বা মন্তব্য।

৭৬। ছাইয়া = ছেলে হয়েও মেয়ের নিক ধারণকারী ব্লগার।

৭৭। খুদাপেজ = খোদা হাফেজ, দুষ্টুমী করে বলা হচ্ছে।

---
(চলবে?) 😜

305 বার পঠিত (সেপ্টেম্বর ২০১৮ থেকে)

শেয়ার করুন


Avatar: প্রতিভা

Re: বাংলা ব্লগের অপশব্দসমূহ ~

দারুণ ইন্টারেস্টিং। এপার বাংলাতেও এইধরণের শব্দচয়ন হোক।
Avatar: b

Re: বাংলা ব্লগের অপশব্দসমূহ ~

বাঙ্গী মানে এদ্যাশে যারে ফুটি কয়? (রেফঃ ৭৫)
Avatar: বিপ্লব রহমান

Re: বাংলা ব্লগের অপশব্দসমূহ ~

হ, তাই তো। 😎

[সুধীজন, মাফ করবেন], আবার পেছন থেকে মিলনকেও অপভাষায় ওই "বাংগি ফাটানো"ই বলে!

আপ্নেরে ধইন্যা! 💔


আপনার মতামত দেবার জন্য নিচের যেকোনো একটি লিংকে ক্লিক করুন