ন্যাড়া RSS feed
বাচালের স্বগতোক্তি

আরও পড়ুন...
সাম্প্রতিক লেখালিখি RSS feed
  • পাহাড়ে শিক্ষার বাতিঘর
    পার্বত্য জেলা রাঙামাটির ঘাগড়ার দেবতাছড়ি গ্রামের কিশোরী সুমি তঞ্চঙ্গ্যা। দরিদ্র জুমচাষি মা-বাবার পঞ্চম সন্তান। অভাবের তাড়নায় অন্য ভাইবোনদের লেখাপড়া হয়নি। কিন্তু ব্যতিক্রম সুমি। লেখাপড়ায় তার প্রবল আগ্রহ। অগত্যা মা-বাবা তাকে বিদ্যালয়ে পাঠিয়েছেন। কোনো রকমে ...
  • বেঁচে আছি, আত্মহারা - জার্নাল, জুন ১৯
    ১এই জল, তুমি তাকে লাবণ্য দিয়েছ বলেবাণিজ্যপোত নিয়ে বেরোতেই হ'লযতক্ষণ না ডাঙা ফিকে হয়ে আসে।শুধু জল, শুধু জলের বিস্তার, ওঠা পড়া ঢেউসূর্যাস্তের পর সূর্যোদয়ের পর সূর্যাস্তমেঘ থেকে মাঝে মাঝে পাখিরা নেমে আসেকুমীরডাঙা খেলে, মাছেরা ঝাঁক বেঁধে চলে।চরাচর বলে কিছু ...
  • আনকথা যানকথা
    *****আনকথা যানকথা*****মোটরবাইক ঃ ইহা একটি দ্বিচক্রী স্থলযান। পেট্রল ডিজেল জাতীয় জীবাশ্ম জ্বালানির সাহায্যে চলে। বিভিন্ন আকারের ও বিভিন্ন ক্ষমতাসম্পন্ন মোটরবাইক আমরা দেখিতে পাই। কোন কোন বাইকের পাশে ক্যারিয়ার থাকে। শোলে বাইক আজকাল সেরকম দেখিতে পাওয়া যায়না। ...
  • সরকারী পরিষেবার উন্নতি না গরীবকে মেডিক্লেম বানিয়ে দেওয়া? কোনটা পথ?
    এন আর এস এর ঘটনাটি যে এতটা স্পর্শকাতর ইস্যু হয়ে উঠতে পারল এবং দেখিয়ে দিল হাসপাতালগুলির তথা স্বাস্থ্য পরিষেবার হতশ্রী দশা, নির্দিষ্ট ঘটনাটির পোস্টমর্টেম পেরিয়ে এবার সে নিয়ে নাগরিক সমাজে আলোচনা দরকার।কিন্তু এই আলোচনা কতটা হবে তাই নিয়ে সংশয় আছে। কারণ ...
  • জুনিয়র ডাক্তারদের ধর্মঘট ও সরকারের ভূমিকা
    হিংসার ঘটনা এই তো প্রথম নয়। ২০১৭ ফেব্রুয়ারীতে টাউনহল খাপ পঞ্চায়েত বসিয়ে বেসরকারি হাসপাতালের ম্যানেজমেন্ট কে তুলোধোনা করার পর রাজ্যে ১ নতুন ক্লিনিক্যাল এস্তব্লিশমেন্ট অ্যাক্ট চালু হয়েছিল। বলা হয়েছিল বেসরকারি হাসপাতাল গুলি র রোগী শোষণ বন্ধ করার জন্য, ...
  • ব্রুনাই দেশের গল্প
    আশেপাশের ভূতেরা – ব্রুনাই --------------------...
  • 'বখাটে'
    তেনারা বলতেই পারেন - কেন, মাও সে তুঙ যখন ঘোষণা করেছিল, শিক্ষিত লোকজনের দরকার নেই, লুম্পেন লোকজন দিয়েই বিপ্লব হবে, তখন দোষ ছিল না, আর 'বখাটে' ছেলেদের নিয়ে 'দলের কাজে' চাকরি দেওয়ার কথা উঠলে দোষ!... কিন্তু, সমস্যা হল লুম্পেনের ভরসায় 'বিপ্লব' সম্পন্ন করার পর ...
  • ডাক্তার...
    সবচেয়ে যে ভাল ছাত্র তাকেই অভিভাবকরা ডাক্তার বানাতে চায়। ছেলে বা মেয়ে মেধাবী বাবা মা স্বপ্ন দেখে বসে থাকল ডাক্তার বানানোর। ছেলে হয়ত প্রবল আগ্রহ নিয়ে বসে আছে ইঞ্জিনিয়ারিঙের কিন্তু বাবা মা জোর করে ডাক্তার বানিয়েছে এমন উদাহরণ খুঁজতে আমাকে বেশি দূর যেতে হবে ...
  • বাতাসে আবারও রেকর্ড সংখ্যক কার্বন-ডাই-অক্সাইড, কোন পথে এগোচ্ছে পৃথিবী?
    সাম্প্রতিক একটি প্রতিবেদন বলছে বায়ুতে কার্বন ডাই অক্সাইডের পরিমাণ আবারও বেড়ে গেছে। এই নিয়ে প্রতিবছর মে মাসে পরপর কার্বন ডাই অক্সাইডের পরিমাণ বৃদ্ধি পেতে পেতে বর্তমানে বায়ুতে কার্বন ডাই অক্সাইডের পরিমাণ রেকর্ড সংখ্যক। গত মাসে (মে-তে) কার্বন ডাই অক্সাইডের ...
  • ফেসবুক রোগী
    অবাক হয়ে আমার সামনে বসা ছেলেটার কান্ড দেখছি। এই সময়ে তার আমার পাশে বসে আমার ঘোমটা তোলার কথা। তার বদলে সে ল্যাপটপের সামনে গিয়ে বসেছে।লজ্জা ভেঙ্গে বলেই ফেললাম, আপনি কি করছেন?সে উৎকণ্ঠার সাথে জবাব দিলো, দাঁড়াও দাঁড়াও! 'ম্যারিড' স্টাটাস‌ই তো এখনো দেইনি। ...


বইমেলা হোক বা নাহোক চটপট নামিয়ে নিন রঙচঙে হাতে গরম গুরুর গাইড ।

ক্রিকেট অ্যানালিসিস

ন্যাড়া

হাটে-বাটে, মাঠে-ঘাটে, রণে-বনে, জলে-জঙ্গলে লোকে আমায় জিগেস করে, "ন্যাড়াবাবু, আপনার এই অতুলনীয় গেম-রিডিং আপনি কোথা থেকে শিখলেন?" আমি মৌরি হেসে পাশ কাটিয়ে যাই। উত্তর দিইনা।

আজ বিবেক বলল, "এ কি সঙ্গে নিয়ে যাবি? বিলিয়ে দে, বিলিয়ে দে।" তাই আমার গোপন কথা আজ ফাঁস করেই দিই।

দেখুন বালকবৃন্দ ও স্নেহের হিজিবিজবিজ, আমরা যখন খেলার অ্যানালিসিস শিখছি তখন না ছিল কালার টেলিভিশন, না ছিল টাক-মাথায়-ঢেউ-খেলান-চুল নিয়ে হর্ষ ভোগলের দল। গাভাসকার-গাঙ্গুলির দল তখন ব্যাট নাবিয়েই কমেন্ট্রিবক্সে ছুটত না। আমাদের ছিল রেডিও কমেন্ট্রি। আনন্দ শেতলাবাদ, নারোত্তম পুরী, সুশীল যোশী, কিশোর ভিমানিরা। সত্যি বলতে ক্রিকেট কমেন্ট্রি শুনে যত ইংরিজি শিখেছি, পি কে দেসরকার থেকে নেসফিল্ড কেউই অত ইংরিজি শেখাতে পারেননি। হিন্দিতে তাও অমিতাভ থেকে ধর্মেন্দ্র সবাই দায়িত্ব নিয়ে সুশীল দোশীকে সাপোর্ট দিয়েছেন। ইংরিজিতে সে গুড়ে বালি। ক্লিন্ট ইস্টউড চুরুট চিবিয়ে চিবিয়ে ক্যাঁও-ম্যাও করে দুটো কথা বলেই ঠাঁই-ঠাঁই-ঠাঁই-ঠাঁই-ঠাঁই। হলিউডের সব সিনেমাই আমার কাছে ছবিতে-গল্প।

ক্রিকেট অ্যানালিসিস শিখেছি বাংলায়। অবস্থাটা কল্পনা করুন। টিভিতে সাদা-কালো খেলা। বল দেখা যায় না। মাঠের সবাই খুদি-খুদি এবং হাল্কা আউট-অফ-ফোকাস। আন্দাজে এবং কল্পনা মিশিয়ে খেলা দেখতে হত। এমতাবস্থায় অগতির গতি বাংলা কমেন্ট্রি। কী লাইন-আপ! অজয় বসু, পুষ্পেন সরকার আর এক্সপার্ট কমল ভট্টাচার্য। লোকে টিভিতে খেলা দেখার সময়েও টিভির সাউন্ড বন্ধ করে রেডিওয় এনাদের কমেন্ট্রি শুনত।

অজয় বসু শাপভ্রষ্ট সাহিত্যিক। বিভূতিভূষণ ঘরানা। প্রকৃতি খুব টানে ওনাকে। পেটের দায়ে ক্রীড়া-সাংবাদিকতা করছেন, মনে হয়। হাড্ডাহাড্ডি খেলা চলছে, ভারত ওয়েস্ট ইন্ডিজকে চেপে ধরেছে। মাঠময় কি-হয় কি-হয় উত্তেজনা। ওদিকে অজয় বসু চিল দেখছেন। আর তার বর্ণনা করে চলেছেন। "সবুজ মাঠের ওপরে নীল মেঘমুক্ত আকাশ। দুটি চিল, সোনালী ডানার চিল, চক্রাকারে উড়ছে। হয়ত ভোজ্যের টানে কখনও নেবে আসবে ইডেনের বুকে। ঠোঁটে তুলে নেবে মানুষের উচ্ছিষ্ট। এই কি তাদের ভবিতব্য? সভ্য মানুষ গড়েছে কংক্রিটের স্টেডিয়াম। কেড়ে নিয়েছে তাদের বাসভূমি।" হঠাৎ গলা চড়িয়ে, "বলতে বলতে দুটি উইকেট পড়ে গেছে। চন্দ্রশেখর ওয়েস্ট ইন্ডিজের দুটি মূল্যবান উইকেট তুলে নিলেন। যা বলছিলাম, হায় চিল, সোনালী ডানার চিল।"

পুষ্পেন সরকারের আবার প্রকৃতি-টকৃতির দিকে তেমন মন নেই। ওনার কল্পনা মনুষ্যচরিত্রে - বলা ভাল, কথোপকথনে। দুজন ব্যাটসম্যান পিচের মাঝে কী বলছেন, উনি মানসকর্ণে শুনে ফেলেন। "বিশ্বনাথ গাভাসকারকে বলছেন, তুমি হোল্ডিংকে ঠোকো, আমি মারি।" অনেকটা সেই "তুমি কষে ধরো হাল, আমি তুলে বাঁধি পাল" স্টাইল। আবার কখনও "পাতৌদি চন্দ্রশেখরকে বলছেন, তোমার ওপরেই আজ ভরসা চন্দ্রশেখর। এই নাও বল। দেখাও তোমার কেরামতি। চন্দ্র পাতৌদিকে বললেন, 'পায়ে পড়ি ক্যাপ্টেন। আজ নয়। আজ অন্য কাউকে বল দাও।' পাতৌদি কিন্তু নাছোড়বান্দা। চন্দ্রকেই বল দেবেন। চন্দ্র বল নিয়ে দেখছেন। ভাবছেন, আজ কি পারবেন?"

তবে কল্পনার লাগাম যদি কেউ ছাড়াতেন, তিনি হলেন কমল ভট্টাচার্য। "বল করতে আসছেন অ্যান্ডি রবার্ট। অ্যান্ডিরা দুই ভাই। অ্যান্ডি রবার্ট আর ম্যান্ডি রবার্ট। দুজনকে একসঙ্গে ওদের মা রবার্টস বলে ডাকেন। তাই অ্যান্ডির নাম হয়েছে অ্যান্ডি রবার্টস। আমি অবশ্য রবার্টই বলি।"

এতেও যদি ক্রিকেট অ্যানালিসিসের অন্তর্দৃষ্টি না গজায়, তাহলে আর কিসে গজাবে কাকা!

308 বার পঠিত (সেপ্টেম্বর ২০১৮ থেকে)

শেয়ার করুন


Avatar: দ

Re: ক্রিকেট অ্যানালিসিস

ইসে, কেমন তীত্থদ্বারা অনুপ্রাণিত মনে হচ্ছে। ঠিউক ন্যাড়াদা ইস্টাইল নয়।
Avatar: lcm

Re: ক্রিকেট অ্যানালিসিস

হে হে, কমলদার এই রবার্ট্‌স - এটা আগে শুনেছি বলে মনে পড়ছে না।
Avatar: b

Re: ক্রিকেট অ্যানালিসিস

বলতে না বলতে উইকেট পড়ে গেলো (দ্রুত),
বলতে বলতে (পজ), উইকেট পড়ে গেলো
বলতে বলতে
(গলাটা চড়া থেকে খাদে নেবে যেতো)

তবে ক্রিকেট কমেন্ট্রি সম্ভবতঃ এইটা সেরাঃ

https://www.youtube.com/watch?v=KsVTpX7LdZQ
মনে রাখবেন leg over মানে ইসে ।


আপনার মতামত দেবার জন্য নিচের যেকোনো একটি লিংকে ক্লিক করুন