Abhijit Majumder RSS feed
Abhijit Majumder খেরোর খাতা

আরও পড়ুন...
সাম্প্রতিক লেখালিখি RSS feed
  • হাল্কা নারীবাদ, সমানাধিকার, বিয়ে, বিতর্ক ইত্যাদি
    কদিন আগে একটা ব্যাপার মাথায় এল, শহুরে শিক্ষিত মধ্যবিত্ত মেয়েদের মধ্যে একটা নরমসরম নারীবাদী ভাবনা বেশ কমন। অনেকটা ঐ সুচিত্রা ভট্টাচার্যর লেখার প্লটের মত। একটা মেয়ে সংসারের জন্য আত্মত্যাগ করে চাকরী ছেড়ে দেয়, রান্না করে, বাসন মাজে হতভাগা পুরুষগুলো এসব বোঝে ...
  • ক্যানভাস(ছোট গল্প)
    #ক্যানভাস১ সন্ধ্যে ছটা বেজে গেলেই আর অফিসে থাকতে পারে না হিয়া।অফিসের ওর এনক্লেভটা যেন মনে হয় ছটা বাজলেই ওকে গিলে খেতে আসছে।যত তাড়াতাড়ি পারে কাজ গুছিয়ে বেরোতে পারলে যেন হাঁপ ছেড়ে বাঁচে।এই জন্য সাড়ে পাঁচটা থেকেই কাজ গোছাতে শুরু করে।ছটা বাজলেই ওর ডেক্সের ...
  • অবৈধ মাইনিং, রেড্ডি ভাইয়েরা ও এক লড়াইখ্যাপার গল্প
    এ লেখা পাঁচ বছর আগের। আরো বাহু লেখার মত আর ঠিকঠাক না করে, ঠিকমত শেষ না করে ফেলেই রেখেছিলাম। আসলে যাঁর কাজ নিয়ে লেখা, হায়ারমাথ, তিনি সেদিনই এসেছিলেন, আমাদের হপকিন্স এইড ইণ্ডিয়ার ডাকে। ইনফরমাল সেটিং এ বক্তৃতা, তারপর বেশ খানিক সময়ের আলাপ আলোচনার পর পুরো ...
  • স্বাধীন চলচ্চিত্র সংসদ বিষয়ক কিছু চিন্তা
    জোট থাকলে জটও থাকবে। জটগুলো খুলতে খুলতে যেতে হবে। জটের ভয়ে অনেকে জোটে আসতে চায় না। তবে আমি চিরকালই জোট বাঁধার পক্ষের লোক। আগেও সময়ে সময়ে বিভিন্নরকম জোটে ছিলাম । এতবড় জোটে অবশ্য প্রথমবার। তবে জোটটা বড় বলেই এখানে জটগুলোও জটিলতর হওয়ার সম্ভাবনা বেশি। কেউ ...
  • 'শীতকাল': বীতশোকের একটি কবিতার পাঠ প্রতিক্রিয়া
    বীতশোকের প্রথম দিকের কবিতা বাংলা কবিতা-কে এক অন্য স্বর শুনিয়েছিলো, তাঁর কণ্ঠস্বরে ছিলো নাগরিক সপ্রতিভতা, কিন্তু এইসব কবিতার মধ্যে আলগোছে লুকোনো থাকতো লোকজীবনের টুকরো ইঙ্গিত। ১৯৭৩ বা ৭৪ সালের পুরনো ‘গল্পকবিতা’-র (কৃষ্ণগোপাল মল্লিক সম্পাদিত) কোনো সংখ্যায় ...
  • তারাবী পালানোর দিন গুলি...
    বর্ণিল রোজা করতাম ছোটবেলায় এই কথা এখন বলাই যায়। শীতের দিনে রোজা ছিল। কাঁপতে কাঁপতে সেহেরি খাওয়ার কথা আজকে গরমে হাঁসফাঁস করতে করতে অলীক বলে মনে হল। ছোট দিন ছিল, রোজা এক চুটকিতে নাই হয়ে যেত। সেই রোজাও কত কষ্ট করে রাখছি। বেঁচে থাকলে আবার শীতে রোজা দেখতে পারব ...
  • দি গ্ল্যামার অফ বিজনেস ট্রাভেল,কোপেনহেগেনে বিড়ি
    এই ঘটনাটি আমার নিজের অভিজ্ঞতা নয়। শোনা ঘটনা আমার দুই সিনিয়রের জীবনের।দি গ্ল্যামার অফ বিজনেস ট্রাভেলকোপেনহেগেনে বিডি***********পুরোট...
  • অদ্ভুত
    -কি দাদা, কেমন আছেন?-আপনি কে? এখানে কেন? ঘরে ঢুকলেন কিভাবে?-দাঁড়ান দাঁড়ান , প্রশ্নের কালবৈশাখী ছুটিয়ে দিলেন তো, এত টেনশন নেবেন না-মানেটা কি আমার বাড়ি, দরজা বন্ধ, আপনি সোফায় বসে ঠ্যাঙ দোলাচ্ছেন, আর টেনশন নেব না? আচ্ছা আপনি কি চুরি করবেন বলে ঢুকেছেন? যদি ...
  • তারার আলোর আগুন
    তারার আলো নাকি স্নিগ্ধ হয়, কাল তাহলে কেন জ্বলে মরল বারো, মৃত্যুর সঙ্গে পাঞ্জা লড়ছে আরো সত্তর জন! তবু মৃত্যু মিছিল অব্যাহত। আজও রাস্তায় পড়ে এক স্বাস্থ্যবান শ্যামলা যুবক, শেষবারের মতো ডানহাতটা একটু নড়ল। কিছু বলতে চাইল কি ? চারপাশ ঘিরে দাঁড়িয়ে থাকা সশস্ত্র ...
  • 'হারানো সজারু'
    ১এক বৃষ্টির দিনে উল্কাপটাশ বাড়ির পাশের নালা দিয়ে একটি সজারুছানাকে ধেইধেই করে সাঁতার কেটে যেতে দেখেছিল। দেখামাত্রই তার মনে স্বজাতিপ্রীতি ও সৌভ্রাতৃত্ববোধ দারুণভাবে জেগে উঠল এবং সে ছানাটিকে খপ করে তুলে টপ করে নিজের ইস্কুল ব্যাগের মধ্যে পুরে ফেলল। এটিকে সে ...


বইমেলা হোক বা নাহোক চটপট নামিয়ে নিন রঙচঙে হাতে গরম গুরুর গাইড ।

যে কথা ব্যাদে নাই

Abhijit Majumder

যে কথা ব্যাদে নাই

আমগো সব আছিল। খ্যাতের মাছ, পুকুরের দুধ, গরুর গোবর, ঘোড়ার ডিম..সব। আমগো ইন্টারনেট আছিল, জিও ফুন আছিল, এরোপ্লেন, পারমানবিক অস্তর ইত্যাদি ইত্যাদি সব আছিল। আর আছিল মাথা নষ্ট অপারেশন। শুরু শুরুতে মাথায় গোলমাল হইলেই মাথা কাইট্যা ফালাইয়া নুতন মাথা লাগাইয়া দিত। এই যেমন গণশার করসিল। যন্তু...জানোয়ার.... ওই মানে হাতের কাসে যা পাওয়া যায় আর কি। তারপর হইল কি, লোকজন ইস্যামত মাথা কাটতে আরম্ভ কইর্র্যা দিল। কারুর লাল মাথা কাটি সবুজ কইর্র্যা দিল, তো কাউরে মুকুলেই কাইট্যা করি দিল কমলা। সে কি কান্ড। কুইনটা যে কে, সে চেনাই বড় দায়। আজ যারে দাদা কইয়্যা ফুল পাঠাই, কাল তারই সাথে দেহি কুস্তি। হইব না ক্যান, চ্যাহারাখান পাল্টাইয়া গ্যালে মানষের আর থাকে কি। তাছাড়া গণশা যে জীবনে হ্যার বউরে আর চুমা খাইতে পাইরল না, সেই দু:খের কথা তো কেউ কেউ কইলই না।

এই অবস্থা দেইখ্যা একদিন সব বড় বড় মনষীরা এক লগে বইল। কিসু একডা তো করন লাগে। শ্যাষ কালে ঠিক হইল আর মাথা পাল্টানো চইলব না। তার বদলা বেরেন পাল্টাইতে হইব। মানষের মাথায় জন্তু জানোয়ারের ব্রেন। য্যামন ধরেন কুত্তার বেরেন, গিরগিটির ব্রেন, ভেড়ার বেরেন, শুয়ারের ব্রেন- এমন আরও কত কি।

কিন্তু রিসার্চে তো গন্ডগোল হয়ই। নইলে সায়েন্স ফিকশন কি কইর্র্যা হইব? হেইভাবেই হইলডা কি, ট্রান্সপ্ল্যান্ট করা বেরেনের বৈশিষ্ট্য কি কইর্র্যা যেন হেরিটেবল মানে বংশগত হইয়া গেল। বাপ থেইক্যা পোলায়, মাইয়ায় চইলতে লাইগল। অবস্থা এমন জায়গায় গিয়া দাঁড়াইল যে বাচ্চা হইলে হক্কলে জিগাইতে লাইগল কুত্তা হইসে না বিলাই।

বৈদিক যুগের গবেষণায় এই গোলমালের জইন্য দায়ী কে সঠিক কওন যায় না, তবে নেহরুই হইব। ওই হালার পো হালাই তো হক্কল গোলমালের লাইগ্যা র্যাসপন্সিবল।

বৈদিক বৈজ্ঞানিকেরা গোবর আর গোমূত্র দিয়া একটা ওসুদ অলমোস্ট বানাইয়া ফালাইসিল, এমন সময় বাবর আইস্যা অ্যাটাক কইর্যা দিল। তারপর আইল তৈমুর, সৈফ, করিনা আরও কত কে। (মুখেই কয় করিনা, করে কি আর না?)

মানষের আর মানষ হওন হইল না। কেউ পা চাটা কুত্তা হইয়া গেলাম, কেউ হইলাম কুয়ার ব্যাং। কারোর বেরেন হইল নোংরা ঘাঁটা শুয়ারের মত। কেউ গিরগিটির মত রং চেন্জ কইরতে লাগলাম, কেউ ঝাঁপ দিলাম এই ডাল হইতে ওই ডালে। কেউ চক্ষু বুইজ্যা ভেড়ার মতই চইলতে লাইগলাম। কারোর বেরেন হইল রক্তচুষা মশার মত। মানষের বেরেন আর খুঁইজ্যা পাওন গেল না।

আমগো সব আছিল। মানষের বেরেন, মানষের হার্ট, মানষের মন, মানষের আত্মা।

অহন কেবল মানষের চেহারাখান আছে।

শেয়ার করুন


Avatar: dd

Re: যে কথা ব্যাদে নাই

বেশ বেশ। ভালো লাগলো
Avatar: শঙ্খ

Re: যে কথা ব্যাদে নাই

বাহ
Avatar: tania

Re: যে কথা ব্যাদে নাই

তীক্ষ্ণ!
Avatar: lcm

Re: যে কথা ব্যাদে নাই

লেখাটা বেড়ে হইসে... তবে কি কথাডা হইল - এত হতাশার কিসু নাই... আসে আসে, মানবিকতা আসে...
Avatar: মহাশক্তিমান

Re: যে কথা ব্যাদে নাই

পূর্ব বাঙলায় আমাগো সব আছিলো। এই তো বেশি দিনের কথা না। ষাইট -সত্তর বসর হইব। আমাগো গোয়াল ভরা গরু আছিলো ,পুকুর ভরা মাস। আমাগো বাপ -দাদাগো কাফের ,মালাউন কইকার উখান থিক্কা ভাগাইয়া দিলো। জান -মান আর মা -দাদীমার ইজ্জত তো বাঁচাইতে হইবো। ঠাকুরদা আইলো ,বাবা আইলো ,মা আইলো , মায়ের পেটে আমি আইলাম। এক্কেবারে উদবাস্তু। এখানে আইয়া সবকিছু ধীরে ধীরে হইলো। আমরা হইয়া গেলাম কমিনিস্ট আর সিকিউলার। গনসার নামে যা কিসু কইতে পারি। নবীর নামে কিসু কোই না। কল্লা কাটাইয়া ফালাইয়া দিবে। দেশডা ইন্টলারেন্সে ভইরা গেলো। যাইগ্গা , অফিসের পর ক্যান্ডেললাইট মিছিল আশে #নট ইন মাই নেম।


আপনার মতামত দেবার জন্য নিচের যেকোনো একটি লিংকে ক্লিক করুন