Dibyendu Singha Roy RSS feed

Dibyendu Singha Royএর খেরোর খাতা।

আরও পড়ুন...
সাম্প্রতিক লেখালিখি RSS feed
  • ৬২ এর শিক্ষা আন্দোলন ও বাংলাদেশের শিক্ষা দিবস
    গত ১৭ই সেপ্টেম্বর বাংলাদেশে ‘শিক্ষা দিবস’ ছিল। না, অফিশিয়ালি এই দিনটিকে শিক্ষা দিবস হিসেবে ঘোষণা করা হয়নি বটে, কিন্তু দিনটি শিক্ষা দিবস হিসেবে পালিত হয়। সেদিনই এটা নিয়ে কিছু লেখার ইচ্ছা ছিল, কিন্তু ১৭ আর ১৯ তারিখ পরপর দুটো পরীক্ষার জন্য কিছু লেখা ...
  • বহু যুগের ওপার হতে
    কেলেভূতকে (আমার কন্যা) ঘুড়ির কর (কল ও বলেন কেউ কেউ) কি করে বাঁধতে হয় দেখাচ্ছিলাম। প্রথম শেখার জন্য বেশ জটিল প্রক্রিয়া, কাঁপকাঠি আর পেটকাঠির ফুটোর সুতোটা থেকে কি ভাবে কতোটা মাপ হিসেবে করে ঘুড়ির ন্যাজের কাছের ফুটোটায় গিঁট বাঁধতে হবে - যাতে করে কর এর দুদিকের ...
  • ভাষা
    এত্তো ভুলভাল শব্দ ব্যবহার করি আমরা যে তা আর বলার নয়। সর্বস্ব হারিয়ে বা যন্ত্রণা সহ্য করতে না পেরে যে প্রাণপণ চিৎকার করছে, তাকে সপাটে বলে বসি - নাটক করবেন না তো মশাই। বর্ধমান স্টেশনের ঘটনায় হাহাকার করি - উফ একেবারে পাশবিক। ভুলে যাই পশুদের মধ্যে মা বোনের ...
  • মুজতবা
    আমার জীবনে, যে কোন কারণেই হোক, সেলিব্রিটি ক্যাংলাপনা অতি সীমিত। তিনজন তথাকথিত সেলিব্রিটি সংস্পর্শ করার বাসনা হয়েছিল। তখন অবশ্য আমরা সেলিব্রিটি শব্দটাই শুনিনি। বিখ্যাত লোক বলেই জানতাম। সে তিনজন হলেন সৈয়দ মুজতবা আলী, দেবব্রত বিশ্বাস আর সলিল চৌধুরী। মুজতবা ...
  • সতী
    সতী : শেষ পর্বপ্ৰসেনজিৎ বসু[ ঠিক এই সময়েই, বাংলার ঘোরেই কিনা কে জানে, বিরু বলেই ফেলল কথাটা। "একবার চান্স নিয়ে দেখবি ?" ]-- "যাঃ ! পাগল নাকি শালা ! পাড়ার ব্যাপার। জানাজানি হলে কেলো হয়ে যাবে।"--"কেলো করতে আছেটা কে বে ? তিনকুলে কেউ আসে ? একা মাল। তিনজনের ঠাপ ...
  • মকবুল ফিদা হুসেন - জন্মদিনের শ্রদ্ধার্ঘ্য
    বিনোদবিহারী সখেদে বলেছিলেন, “শিল্পশিক্ষার প্রয়োজন সম্বন্ধে শিক্ষাব্রতীরা আজও উদাসীন। তাঁরা বোধহয় এই শিক্ষাকে সৌখিন শিক্ষারই অন্তর্ভুক্ত করে রেখেছেন। শিল্পবোধ-বর্জিত শিক্ষা দ্বারা কি সমাজের পূর্ণ বিকাশ হতে পারে?” (জনশিক্ষা ও শিল্প)কয়েক দশক পরেও, পরিস্থিতি ...
  • আমি সংখ্যা লঘুর দলে...
    মানব ইতিহাসের যত উত্থান পতন হয়েছে, যত বিপদের সম্মুখীন হয়েছে তার মধ্যে বর্তমানেও যা প্রাসঙ্গিক রয়ে গেছে এমন কিছু সমস্যার মধ্যে অন্যতম হচ্ছে শরণার্থী সমস্যা। হুট করে একদিন ভূমিহীন হয়ে যাওয়ার মত আতঙ্ক খুব কমই থাকার কথা। স্বাভাবিক একজন পরিবার পরিজন নিয়ে বেঁচে ...
  • প্রহরী
    [মূল গল্প – Sentry, লেখক – Fredric Brown, প্রথম প্রকাশকাল - ১৯৫৪] .......................
  • ইতিহাসের সঙ্কলন, সঙ্কলনের ইতিহাস - একটি বইয়ের প্রেক্ষাপট, উপক্রমণিকা
    ওয়েস্ট বেঙ্গল ডক্টর্স ফোরামের তরফ থেকে, বেশ কিছু লেখালিখি একসাথে সাজিয়ে, একটা সঙ্কলন প্রকাশিত হলো।নাম, ইতিহাসের সঙ্কলন, সঙ্কলনের ইতিহাস।একটা উদবেগজনক আর দুর্ভাগ্যজনক পরিস্থিতিতে আমরা এই বই প্রকাশ করেছি। সত্যি বলতে কি, এই বইয়ের জন্মের কারণই আমাদের উদবেগ, ...
  • সতী
    সতী : প্রথম পর্বপ্রসেনজিৎ বসুমেয়েটা মাসতিনেক হল এসেছে এই পাড়ায়।মেয়ে ? এই হয়েছে শালা এক মুশকিল ! বিয়ের পর মেয়েরা বউ হয়, কিন্তু ডিভোর্সের পর তারা কি বউই থাকে ? নাকি ফের মেয়ে বনে যায় ? জল জমে বরফ হয়। বরফ গললে আবার জল। কিন্তু এক্ষেত্রে ? ডিভোর্সি মহিলারা ঠিক ...


বইমেলা হোক বা নাহোক চটপট নামিয়ে নিন রঙচঙে হাতে গরম গুরুর গাইড ।

লেখক, বই ও বইয়ের বিপণন

Dibyendu Singha Roy

কিছুদিন আগে বইয়ের বিপণন পন্থা ও নতুন লেখকদের নিয়ে একটা পোস্ট করেছিলাম। তারপর ফেসবুকে জনৈক ভদ্রলোকের একই বিষয় নিয়ে প্রায় ভাইরাল হওয়া একটা লেখা শেয়ার করেছিলাম। এই নিয়ে পক্ষে ও বিপক্ষে বেশ কিছু মতামত পেয়েছি এবং কয়েকজন মেম্বার বেক্তিগত আক্রমণ করে আমায় মিন স্পিরিটেড বা আপনার এত ফাটছে কেন বলতে দ্বিধা করেননি।
নিজের লেখা ও পরে ভদ্রলোকের শেয়ার করা লেখা পড়ে মনে হয়েছে যারা পক্ষে , বিপক্ষে ও বেক্তি আক্রমণ করেছেন তাদের অনেককেই ব্যাপারটা আরেকটু ভালো ভাবে বোঝানো দরকার।
আসলে অল্প বইপত্র পড়ি ও বিভিন্ন ফেসবুক গ্রূপে যা দেখি ও সে নিয়ে আমার প্রতিক্রিয়া জানাতে ও আপনাদের মতামত জানাতে এই পোস্ট।
মাস খানেক আগে একটা বইয়ের গ্রূপে একদিন দেখি এক লেখক একজন অনলাইনে বই বিক্রেতাকে রীতিমতো চার্জ করছিলেন কেন তার বই ওই বিক্রেতা বিক্রি করেননা। বিক্রেতার বক্তব্য ছিল যে সময়ের মধ্যে ক্রেতা বই ডেলিভারি চেয়েছিলেন সে সময়ের মধ্যে ওই লেখকের বই সরবরাহ করা যেত না। এর পর কেন যেতোনা , প্রকাশকের কি স্টক কম , আসলে আপনি ইচ্ছা করে দিতে চাননি এসব দোষারোপ চলতে থাকে।
ব্যাপারটা দেখে ব্যথিত হয়েছিলাম একজন লেখক মহামানব নন তবু মনে হয় তারা অনেক উদার হন (ব্যক্তিগত ধারণা )
এইভাবে একজন বিক্রেতার সাথে তাকে ঝগড়া করতে দেখে খারাপ লেগেছিলো।
উক্ত লেখককে এর আগে এরকম বেশ কিছু ঝামেলায় জড়াতে দেখেছি বিশেষ করে তার বিপক্ষ গ্রূপের লেখক ও তার দলবলের সাথে। দু পক্ষই কেও কারোর থেকে কম জাননা কদর্য ভাষা ও কাদা ছোঁড়াছুড়িতে।
দু পক্ষের লেখা পড়েছি এবং এদের কারোর লেখায় উঁচু মানের মনে হয়নি (ব্যক্তিগত মতামত)
যদিও খুব বড় প্রকাশনী এদের লেখা প্রকাশ করে তবু আজ অবধি যারা একটু সিরিয়াস লেখা পড়েন ও আলোচনা করেন তাদের কোনোদিন এদের নিয়ে আলোচনা করতে দেখিনি।
এধরণের অনেক লেখক লেখিকার বই বেরোনো মাত্র তাদের ফ্যান ফলোয়ার রা রিভিউ দেন। রিভিউতে বইটার শুধু গুণকীর্তন দেখতে পায় কেউ সমালোচনা করলেই ফ্যানেরা রে রে করে তেড়ে আসেন।
বই বিপণন করতে অনেক লেখক ও প্রকাশক এখন প্রিবুকিং এর সাহায্য নেন। প্রি বুকিং নিয়ে সমস্যার কিছু নেই। কিন্তু যে ভাবে বিজ্ঞাপন করা হয় তা অনেক সময় লাক্স সাবান অথবা গার্নিয়ার মেন্স ফেসওয়াসের মতো যা বার বারবার বলে অর্থ ও প্রচারই শেষ কথা। বইয়ের ক্ষেত্রে এটা মানতে কষ্ট হয় (ব্যক্তিগত মত)
এক লেখক কিছুদিন আগে বিখ্যাত গোয়েন্দা নিয়ে নিজের বইয়ের প্রচার করছিলেন ঠিক এইভাবে "প্রিবুকিং করলে আকর্ষণীয় ডিসকাউন্ট , প্রথম ৫০ জন ক্রেতার জন্য সারপ্রাইজ গিফট ও আমার সই "
কয়েকজন যারা ওনার লেখা পড়েছেন তাদের মুখে শুনেছি বেশিরভাগ লেখাই উইকিপেডিয়া থেকে টোকা।
নিজে পড়তে পারিনি কারণ বইয়ের অসম্ভব দাম।
রবিনসন স্ট্রিটের কঙ্কাল কাণ্ডের কথা মনে আছে ? আনন্দবাজারে কঙ্কাল উদ্ধারের পরদিনই শীর্ষেন্দু মুখোপাধ্যায় লিখেছিলেন "ডালমে কুছ কালা হে " । গোটা বাংলার লোক পার্থ দে নামের অসুস্থ লোকটাকে বিকৃত যৌনাচারী প্রতিপন্ন করে নিজের দিদির সাথে শুইয়ে দিয়েছিলো। শীর্ষেন্দু বাবু তদন্তের আগেই এক প্রকার মতামত দিয়েই দিয়েছিলেন নিশ্চই কিছু গড়বড় আছে।
একজন লেখক আরেকটু ভাববেন না ? আরেকটু দায়িত্ব নেবেন না ? হঠাৎ একটা মন্তব্য করে বসবেন!
শীর্ষেন্দু বাবুর নাম নিতে ভয় পাইনা। আমার লেখায় তার কিছুই যায় আসেনা কিন্তু নতুন লেখকদের যখন এরকম ভাবে প্রতিক্রিয়া দিতে দেখি চিন্তিত হয় কিন্তু নাম উদ্ধৃত করে তাদের বলতে পারিনা দাদা আরেকটু সময় নিন , ভাবুন, বিশ্লেষণ করুন (প্রশ্ন উঠতে পারে আমি বলার কে ? আমার প্রশ্ন কে বলবে ?) ।
ফেসবুকে এক লেখিকা বেশ কিছু গল্প লিখে প্রচুর মানুষের লাইক ও শেয়ার পেয়েছিলেন। থ্রিলার লেখেন আর বই স্টলে আসলেই হট কেকের মতো বিক্রি। আমি ওনার লেখা পড়েছি, ভালোলাগেনি। একদিন আমার পরিচিত বই বিক্রেতা বললো অরে এই বইটা নিয়ে যাও নতুন এসেছে। আমি বললাম লেখিকার লেখা খুব একটা ভালো লাগেনা কিন্তু সেকি আপনার কাছে এতগুলো অথচ সবাই বলছে আউট অফ প্রিন্ট!
ভদ্রলোক বই নি বলে মাঝে বেশ খাতির করেন অনেক কথা জানতে পারি। রাখ ঢাক না করেই বললেন এসব হলো মার্কেটিং স্ট্রাটেজি। দেজ একসময় শঙ্করের বই নিয়ে এরকম করতো। ২৫ কপি ছাপিয়ে , আউট অফ প্রিন্ট তারপর বাজারে এক্স ডিওড্রেন্টের মতো প্রচার করে দ্বিতীয় সংস্করণ তৃতীয় সংস্করণ একটার পর একটা।
এসব লেখক লেখিকাদের মোসাহেব পরিবৃত হয়ে নানা কেচ্ছা মূলক পোস্ট ও মন্তব্য করতে দেখলেও কোনোদিন কোনো ভালো বিষয় নিয়ে আলোচনায় অংশ নিতে দেখিনি। প্রকাশকদের বিজ্ঞাপন কৌশলের কাছে একজন উঠতি লেখকের বা খুব ছোট প্রকাশনার সত্যিকারে ভালো লেখাকে মার্ খেতে দেখেছি।
বইমেলা লিটিল ম্যাগাজিনের প্যাভিলিয়ন থেকে এরকম কিছু অজানা লেখক লেখিকার গল্প কবিতা প্রবন্ধের বই কিনে এনে দেখেছি কি ভরপুর ভাবনার খোরাক আর প্রথা বহির্ভুত দর্শনের উদাহরণ রয়েছে।

আমার মতামত বা বিশ্লেষণ এখানেই শেষ। এইখানে বলে রাখি আমি নিজের মতামত দিয়েছি আর এর দায় সম্পূর্ণ আমার। কোনটা ভালো ও কোনটা খারাপ , কোনটা সিরিয়াস কোনটা জাস্ট বোগাস সেটা বিচার করার আমি কেউ নয় কিন্তু আমার নিজের কিছু জিনিস ভালো লাগতে বা খারাপ লাগতেই পারে। আর আমার যা ভালো লাগে বা খারাপ লাগে তা যে আমার একারই লাগে এমন মনে করিনা। বিশ্বাস করি অনেকেই আমার সাথে সহমত হবেন। অনেকে মানতে পারবেন না।
আসুন আলোচনা করি। ভাবি ও জানি আপনি ঠিক কি ভাবছেন ?

1 বার পঠিত (সেপ্টেম্বর ২০১৮ থেকে)

শেয়ার করুন


Avatar: রুকু

Re: লেখক, বই ও বইয়ের বিপণন

সমসাময়িক সমস্যা নিয়ে আলোচনা।
ব্যক্তিগত বানানটা ঠিক করে নেবেন।
ভালো লাগলো।
Avatar: :P

Re: লেখক, বই ও বইয়ের বিপণন

এক লেখক এক লেখিকা আবার কিরম ভাষা? কৌশিক, দেবারতি এমনি করে লিখতে হয়।
Avatar: anag

Re: লেখক, বই ও বইয়ের বিপণন

এই দুটো আম্মো বুঝ্লাম, কিন্তু প্রথমটা পারি নি ।

হায় - হোমসনামা আমার বাড়িতেও কেনা হয়েছে।
Avatar: pi

Re: লেখক, বই ও বইয়ের বিপণন

শঙ্করের বই নিয়ে এরকম হত ! আমার ধারণা ছিল, শঙ্কর প্রচুর বিক্রি হত !
Avatar: Dibyendu Singha Roy

Re: লেখক, বই ও বইয়ের বিপণন

শঙ্করের বই প্রচুর বিক্রি হতো আজও হয় কিন্তু এই স্ট্রেটেজিও ছিল ।
Avatar: দ

Re: লেখক, বই ও বইয়ের বিপণন

আমিই বোধহয় একমাত্র যে এই ব্লগটার আগাপাস্তলা কিচ্ছু বোঝে নি।


আপনার মতামত দেবার জন্য নিচের যেকোনো একটি লিংকে ক্লিক করুন